নিবন্ধন : ডিএ নং- ৬৩২৯ || শনিবার , ১৭ই আগস্ট, ২০১৯ ইং , ২রা ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ১৫ই জিলহজ্জ, ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

স্বামীকে বোরকা পরিয়ে রেস্টুরেন্টে খেতে গেলেন পাকিস্তানি নারী

স্বামীকে বোরকা পরিয়ে রেস্টুরেন্টে খেতে গেলেন পাকিস্তানি নারী

লিঙ্গ-বৈষম্যের প্রতিবাদ জানাতে স্বামীকে বোরকা পরিয়ে রেস্টুরেন্টে নিয়ে এলেন এক পাকিস্তানি নারী। ইনস্টাগ্রামের এ নিয়ে দেয়া পোস্টে তিনি লিখেছেন, ‘আমার সুন্দরী স্বামীর সৌন্দর্য দেখার হক(অধিকার) কেবল আমারই। মুখ না ঢাকলে তাকে যৌন হেনস্থা করা হতে পারে।’

তিনি বলেন, ‘সে আমার সুন্দরী স্বামী। আপনারা দেখতে পাচ্ছেন না, কতোটা সুন্দর সে। কারণ তার সৌন্দর্য ঢাকা পড়ে আছে। কেননা আমারই কেবল তার ওপর অধিকার রয়েছে। তার সবকিছু, সাফল্য, স্বপ্ন এমনকি তার পুরো জীবনটাই আমার কাছে বাঁধা পড়ে আছে। ওর দিকে কুনজর দেওয়াটা পাপ।’

পোস্টে তিনি আরও লিখেছেন, ‘আমি চাই ও বাইরে না বেরিয়ে ঘরেই থাকুক। কারণ, দুনিয়াটা ভাল জায়গা নয়। তবে আমার সঙ্গে বাইরে গেলে অবশ্য ঠিক আছে।’

পাকিস্তানের মেয়েদেরকে কেবল সন্তান উৎপাদন ও ভোগের বস্তু হিসেবে দেখা হয়। এ প্রচলিত ধারণার প্রতিবাদ জানিয়ে তিনি বলেন, ‘ওর বেঁচে থাকার প্রধান উদ্দেশ্যই তো সন্তান উৎপাদন করা এবং আমাকে মা হতে দেওয়া। ফলে যাই হোক না কেন, আমি ওকে এই রেস্টুরেন্টেই খেতে নিয়ে আসব। কারণ এখানে স্টেরয়েড ছাড়া চিকেন পাওয়া যায়। আর স্টেরয়েড দেওয়া চিকেন খেলে যৌনক্ষমতায় প্রভাব পড়তে পারে।’

আরও পড়ুনঃ নুসরাতের গায়ে আগুনের ঘটনায় আটক হয়নি সিরাজউদ্দৌলার প্রধান অনুগত নুর উদ্দিন

প্রচলিত সংস্কৃতিকে ব্যাঙ্গ করে তিনি আরও লিখেছেন, ‘বাইরে বেরোলে যেভাবে ও নিজেকে লুকিয়ে রাখে সেটা আমার খুব ভাল লাগে। কারণ ও তো খোলা সিন্দুক। আর আমি চাই না যে ও যৌন হেনস্থার শিকার হোক। এরপরেও যদি হয়, তবে ভাগ্যের পরিহাস ভেবে তা স্বীকার করে নেব। তবে হেনস্থাকারীর বিচার চাইব।’

Comments

comments

এমন আরো খবর:

Web developed by: AsadZone.Com

Send this to a friend