নিবন্ধন : ডিএ নং- ৬৩২৯ || বৃহস্পতিবার , ১৮ই জুলাই, ২০১৯ ইং , ৩রা শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ১৪ই জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

ধর্ষক স্কুলশিক্ষককে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ

ধর্ষক স্কুলশিক্ষককে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ

কুড়িগ্রামের রাজীবপুর উপজেলায় এক গৃহবধূকে ধর্ষণে সহায়তার অভিযোগ এনে রাজীবপুর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের ভকেশনাল শাখার মেকানিক ট্রেডের সহকারী শিক্ষক মো. নজরুল ইসলামকে আটক করে পুলিশে দিয়েছে স্থানীয় জনতা। এ ঘটনায় পরে নির্যাতিত গৃহবধূ মামলা করেছেন।

রাজীবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রবিউল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

নির্যাতিত গৃহবধূর বরাত দিয়ে পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, সোমবার (৮ এপ্রিল) দুপুরে ওই গৃহবধূ রাজীবপুর বাজারে এলে কৌশলে তাকে ডেকে নিজের ভাড়া বাসায় নিয়ে যায় পূর্ব পরিচিত নজরুল। এরপর গৃহবধূর গলায় ছুরি ধরে সুজন নামে এক যুবককে ফোনে ডেকে আনে সে। সুজন গৃহবধূকে ধর্ষণ করে। নজরুল মোবাইলে তা ভিডিও করে এবং এ ঘটনা প্রকাশ না করতে হুমকি দেয়।

স্থানীয়রা জানায়, ছাড়া পেয়েই ওই গৃহবধূ তার ট্রাক্টরচালক স্বামী ও ট্রাক্টরের মালিকের কাছে বিষয়টি জানিয়ে দিলে স্থানীয় জনতা নজরুলকে আটক করে গণধোলাই  দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। বর্তমানে ওই শিক্ষক পুলিশ হেফাজতে রাজীবপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, অভিযুক্ত শিক্ষক নজরুল ইসলামের বাড়ি কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলায়। সে বিবাহিত এবং তার সন্তানও রয়েছে।

রাজীবপুর সরকারি মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আজিম উদ্দিন জানান, আমি দাফতরিক কাজে ঢাকায় রয়েছি। তবে বিষয়টি আমি শুনেছি এবং এ নিয়ে ইউএনও মহোদয়ের সঙ্গে কথা বলেছি। অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেলে শিক্ষক নজরুল ইসলামের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

রাজীবপুর থানার অফিসার ইন চার্জ (ওসি) রবিউল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় মামলা হয়েছে। নজরুল নামের ওই শিক্ষক প্রাথমিকভাবে দোষ স্বীকার করেছে। তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। তবে অপর অভিযুক্ত সুজন পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেপ্তারে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

Comments

comments

এমন আরো খবর:

Web developed by: AsadZone.Com
x

Send this to a friend