সমঝোতার মাধ্যমে অব্যাহতি দেয়া হলো রোডসকে

0
0
সর্বমোট
0
শেয়ার

সমঝোতায় এসে জাতীয় দলের হেড কোচের দায়িত্ব থেকে সরিয়ে দেয়া হলো স্টিভ রোডসকে, এমনটাই সময় সংবাদকে জানিয়েছেন বিসিবি পরিচালক জালাল ইউনুস। এরই মধ্যে শুরু হয়েছে নতুন কোচ খোঁজার প্রক্রিয়া। পরবর্তী বোর্ড সভায় আসতে পারে ঘোষণা। এদিকে চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ায়, বিদায় নিতে হচ্ছে পেস বোলিং কোচ কোর্টনি ওয়ালশকেও। তবে টিকে যাবার সম্ভাবনা আছে স্পিন কোচ সুনীল জোশির।

বিশ্বকাপে বাংলাদেশের ফলাফল নতুন করে ভাবতে, পরিকল্পনা সাজাতে বাধ্য করেছে বিসিবিকে। প্রথম পরিবর্তনটা যে কোচিং স্টাফেই আসবে, তা অনেকটা নিশ্চিতই ছিলো।

বিশ্বকাপ চলাকালীন হেড কোচ স্টিভ রোডসের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন ওঠে গণমাধ্যমে। বেশ কিছু ম্যাচে পিচ নিয়ে তার পর্যবেক্ষণ, গেম প্ল্যানও ছিলো প্রশ্নবিদ্ধ। গণমাধ্যমে খবর আসে, চুক্তির মেয়াদ শেষ হবার ১ বছর আগেই বিদায় করে দেয়া হতে পারে তাকে। বিশ্বকাপ মিশন শেষে দল দেশে ফিরতেই আসলো ঘোষণা। দায়িত্ব নেয়ার এক বছরের মাথায় সমঝোতার ভিত্তিতে বিদায় নিলেন রোডস।

বিসিবি পরিচালক জালাল ইউনুস বলেন, জাতীয় দলের পেস ও স্পিন বোলিং কোচের সাথে সাথে হেড কোচের সাথেও সমঝোতার ভিত্তিতে চুক্তি বাতিল করা হয়েছে।

জাতীয় দলের পেস ও স্পিন বোলিং কোচের মেয়াদ ছিলো বিশ্বকাপ পর্যন্ত। ২০১৬ সালের আগস্ট থেকে দলের পেস ডিপার্টমেন্ট সামলানো ওয়ালশ, আর তার এক বছর পর পূর্ণ মেয়াদে যোগ দেন জোশি। তাদের সঙ্গে চুক্তি বাড়াতে অনাগ্রহী বিসিবি, এখন নতুন কোচের সন্ধানে। চলতি মাসের শেষে বোর্ড সভায় আসতে পারে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা।

জালাল ইউনুস বলেন, আমরা বিভিন্নভাবে নানা জায়গায় যোগাযোগের চেষ্টা করছি। তবে কোচ হিসেবে আগে দায়িত্ব পালন করেছে এমন কাউকে চাইছে না বিসিবি। সাকিব-মুশফিকদের জন্য নতুন কোচ খুজছে ক্রিকেট বোর্ড।

এ মাসের শেষেই টাইগারদের শ্রীলঙ্কা সফর। নিরাপত্তার কারণে সংশয়ে থাকা সিরিজটা শেষ পর্যন্ত মাঠে গড়াচ্ছে। দেশটির দেয়া নিরাপত্তা পরিকল্পনায় সন্তুষ্ট হয়েই দল পাঠাতে রাজি হয়েছে বিসিবি।

0
0
সর্বমোট
0
শেয়ার

Comments

comments