আজঃ মঙ্গলবার ২৫ জানুয়ারী ২০২২
শিরোনাম

১৭ কেজি গাঁজাসহ সিরাজগঞ্জে মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | ৩১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ঢাকা-বগুড়া মহাসড়কের সিরাজগঞ্জের বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম গোল চত্বর এলাকায় মাদক বিরোধী অভিযান চালিয়ে ১৭ কেজি গাঁজাসহ আহছান উল্লাহ (২৭) নামে এক মাদককারবারীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন র‌্যাব-১২ এর সদস্যরা।

গ্রেফতারকৃত আহছান উল্লাহ লক্ষ্মীপুর জেলার বশিকপুর গ্রামের ইসমাইল হোসেনের ছেলে। আজ মঙ্গলবার সকালে র‌্যাব-১২র সহকারী পুলিশ সুপার (মিডিয়া অফিসার) মো. মোস্তাফিজুর রহমান এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

সহকারী পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আজ ভোর রাতে র‌্যাবের একটি চৌকস আভিযানিক দল বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম থানার গোল চত্বরের পুলিশ বক্সের সামনে এক মাদক বিরোধী অভিযান পরিচালনা করে ১৭ কেজি গাঁজাসহ ১ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় তার নিকট থেকে মাদক ক্রয়-বিক্রয়ের কাজে ব্যবহৃত ২টি মোবাইল ফোন এবং নগদ ৫২০ টাকা জব্দ করা হয়।


আরও খবর



বাস-ট্রেন ও লঞ্চে কঠোর স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করার আহ্বান জাতীয় কমিটির

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | ৪৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে বাস, ট্রেন ও লঞ্চসহ সব ধরনের গণপরিবহনে কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানিয়েছে নৌ, সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটি। আজ মঙ্গলবার জাতীয় কমিটির সভাপতি হাজি মো. শহীদ মিয়া স্বাক্ষরিত গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

একই সঙ্গে আসনসংখ্যার অর্ধেক যাত্রী বহনের নামে ভাড়া নৈরাজ্য ও সরকারি সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে অতিরিক্ত যাত্রী বহন ঠেকাতে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষসহ (বিআরটিএ) সংশ্লিষ্ট সকল কর্তৃপক্ষকে কঠোর অবস্থানে থাকারও আহ্বান জানিয়েছে নাগরিক সংগঠনটি।

বিবৃতিতে বলা হয়, নতুন করে করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে সরকার বাস, ট্রেন ও লঞ্চসহ সব ধরনের গণপরিবহনে ১৩ জানুয়ারি থেকে আসনসংখ্যার অর্ধেক যাত্রী পরিবহন এবং মুখে মাস্ক পরার নির্দেশনা জারি করেছে সরকার। এ ছাড়া চালক ও চালকের সহকারীসহ সকল পরিবহন কর্মীকে দুই ডোজ করোনা প্রতিরোধী টিকা গ্রহণকারী হতে হবে বলে সরকারি নির্দেশনায় বলা হয়েছে। কিন্তু নিকট অতীতে দেখা গেছে, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ চলাকালে সরকার এমন নির্দেশনা দিলেও সব ধরনের গণপরিবহনই অতিরিক্ত (৫০ শতাংশের বেশি) যাত্রী বহন করেছে। এমনকি মাস্কবিহীন যাত্রীদেরও বহন করা হয়েছে।

এ ছাড়া ঢাকাসহ বড় শহরগুলোতে বাস ও টেম্পোতে অর্ধেক যাত্রী বহনের নামে পরিবহনকর্মীরা ৬০ শতাংশ বেশি ভাড়া আদায় করেছে। এতে সাধারণ যাত্রীদের চরম আর্থিক খেসারত দেওয়ার পাশাপাশি করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি নিয়েই চলাচল করতে হয়েছে বলে বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়।

চিকিৎসাবিজ্ঞানীদের বরাত দিয়ে নৌ, সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটির বিবৃতিতে আরও বলা হয়, করোনাভাইরাসের ডেলটা ভ্যারিয়েন্টের (ধরন) পাশাপাশি এবার অতি দ্রুত সংক্রমণশীল ওমিক্রন ধরনও বাংলাদেশে ঢুকে পড়েছে। সেই সঙ্গে শনাক্ত রোগীর সংখ্যাও আশঙ্কাজনক হারে বেড়ে চলেছে। তাই জননিরাপত্তার স্বার্থে অতীতের চেয়ে এবার অধিকতর সতর্কতা অপরিহার্য। সুতরাং, এ বিষয়ে সরকারসহ সংশ্লিষ্ট সকল কর্তৃপক্ষকে সর্বোচ্চ সতর্কতামূলক পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে বলে মনে করেন জাতীয় কমিটির নেতারা।


আরও খবর



ম্যানচেস্টারের ৩ গোলে জয়

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী ২০22 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী ২০22 | ২২৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বিবর্ণ ম্যানচেস্টারের সামনে প্রথমার্ধে বেশ কয়েকটি সুযোগ পেয়েও কাজে লাগাতে পারেনি ব্রেন্টফোর্ড। কিন্তু একে একে গোল পান ইউনাইটেডের তিন স্ট্রাইকার। তবে গোল পাননি তাদের সবচেয়ে বড় তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। মাঠ ছাড়তে হয় পানসে মুখে।

বুধবার রাতে অনুষ্ঠিত ম্যাচটিতে ৩-১ গোলে জিতেছে ইউনাইটেড। সাম্প্রতিক সময়ে নিজেদের হারিয়ে খুঁজছে রাফ রাংনিক শিষ্যরা। সুযোগ পেয়ে শুরু থেকেই তাদের চেপে ধরেছিল ব্রেন্টফোর্ড।

তবে বায়ান এমবামোর নেওয়া শট পা বাড়িয়ে কর্নারের বিনিময়ে বাঁচিয়ে দেন ডেভিড ডি গিয়া। পরের দুই মিনিটের দুটি কর্নারেই সুযোগ আসে ব্রেন্টফোর্ডের সামনে। কিন্তু গোলের দেখা পায়নি তারা। ২৫তম মিনিটে প্রথম কোনো বড় সুযোগ পায় ইউনাইটেড। কিন্তু ডিয়েগো দালাতের দূর থেকে নেওয়া শট লক্ষ্যে ছিল না।

গোলশূন্য ব্যবধানেই প্রথমার্ধ শেষ করে দুই দল।

৪৭তম মিনিটে এসে একটি হেড করেছিলেন রোনালদো, কিন্তু সেটা পোস্টে লাগলে ফের হতাশ হতে হয় ইউনাইটেডকে। ৫৫ মিনিটে হেড দিয়ে জালে বল পাঠান ইয়েলাংয়া।

ম্যাচের ৭১তম মিনিটে তুলে নেওয়া হয় রোনালদোকে, বদলি হিসেবে খেলতে নামানো হয় র‌্যাশফোর্ডকে। সেও আস্থার প্রতিদান দেন। ফার্নান্দেজের পাস ডি-বক্সে পেয়ে জোরাল শটে কাছের পোস্ট দিয়ে স্কোরলাইন ৩-০ করেন তিনি। ৮৫তম মিনিটে গোলের ব্যবধান কমান আইভ্যান টনি।কিন্তু জয় পেতে সমস্যা হয়নি ইউনাইটেডের।


আরও খবর
মাঠে ফিরছেন মাশরাফি, বোলিংয়ে ঢাকা

সোমবার ২৪ জানুয়ারী ২০২২




আসছে মোশারফ করিমের ‘গু কাকু- দ্য পটি আঙ্কল’

প্রকাশিত:শুক্রবার ২১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২১ জানুয়ারী ২০২২ | ২৮৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

অবাক হয়ে যাচ্ছেন? ভাবছেন এ কেমন কাকু? তবে পুরো বিষয়টা খোলসা করে বলা যাক। এ কাকু আসলে কাল্পনিক। আর এই কাকুকে কেন্দ্র করেই আস্ত একটি ছবি বানিয়ে ফেলেছেন মণীশ বসু। নাম গু কাকু- দ্য পটি আঙ্কলভূতের ভবিষ্যৎ-এর দশ বছর পূর্তি উপলক্ষে এই ছবি প্রযোজনা করছে মোজো প্রোডাকশনস।

ফেব্রুয়ারি মাসে শুরু হতে চলেছে ছবির শ্যুট। অভিনয় করবেন মোশারফ করিম। তাঁর সঙ্গেই রয়েছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী, পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায়, শান্তিলাল মুখোপাধ্যায়, তনুশ্রী চক্রবর্তী, সুস্মিতা চট্টোপাধ্যায়, অপরাজিতা ঘোষ এবং মিশকা হালিমের মতো তারকারা।

গু কাকুর পটভূমিকা নব্বইয়ের দশকের একটি মফস্বলি অঞ্চল। পরিচালকের কথায়, একজন ব্রাত্য, প্রান্তিক মানুষ কী ভাবে একটি গোটা জনগোষ্ঠীর জীবনকে তীব্র ভাবে প্রভাবিত করে ও শেষমেশ সেই অঞ্চলের অধিবাসীদের জন্য হ্যামলিনের বাঁশিওয়ালা হয়ে ওঠে, সে গল্পই উঠে আসে এই ছবিতে।

প্রযোজক জয় বি গঙ্গোপাধ্যায় মনে করেন, মণীশের এই সোশ্যাল স্যাটায়ার এই অতিমারির সময়ও প্রাসঙ্গিক। তবে গু কাকু-র ভূমিকায় কে অভিনয় করছেন, সে বিষয়ে এখনও মুখ খুলতে নারাজ নির্মাতারা।


আরও খবর



চট্টগ্রামে ফার্নিচার মার্কেটে আগুন, নিহত ২

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১০ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৪৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

চট্টগ্রাম নগরীর আকবর শাহ থানার কর্নেলহাট এলাকায় ফার্নিচারের দোকানে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এতে অগ্নিদগ্ধ হয়ে প্রাথমিকভাবে দুইজনের মৃত্যু ঘটেছে বলে জানা গেছে। সোমবার (১০ জানুয়ারি)) বিকেল ৩টা ৫০ মিনিটে কর্নেল জোন্স সড়কে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে আগ্রাবাদ ফায়ার সার্ভিসের সিনিয়র স্টেশন অফিসার নিউটন দাস। তিনি জানান, কর্নেলহাট এলাকায় ফার্নিচারের দোকানে আগুন লাগার খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিটের ১০টি গাড়ি আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে। আগুনের সূত্রপাত সম্পর্কে কেউ নিশ্চিত কিছু বলতে পারে নি।

তাৎক্ষণিকভাবে আগুনে নিহতদের পরিচয় পাওয়া যায়নি। পুড়ে যাওয়া দোকানে তৈরি এবং বিক্রয়ের জন্য প্রস্তুত অনেক ফার্নিচার ছিল বলে দোকান কর্মচারিরা জানান। আগুন নিয়ন্ত্রণে আগ্রাবাদ ফায়ার স্টেশনের ৫টি, কুমিরা ফায়ার স্টেশনের ২টি ও বন্দর ফায়ার স্টেশনের ২টি গাড়ি কাজ করছে বলে জানান স্টেশন অফিসার।


আরও খবর



অর্ধেক যাত্রী নি‌য়ে চল‌বে গণপ‌রিবহন, বাড়ছে না ভাড়া

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১২ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
বিধিনিষেধ চলাকালে বাস ও মিনিবাসে শতভাগ যাত্রী পরিবহন করা হলে মালিকদের লোকসান গুনতে হবে না

আগামী শনিবার (১৫ জানুয়ারি) থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে অর্ধেক যাত্রী নিয়ে সড়কে বাস চলাচল করবে। তবে এ ক্ষেত্রে নতুন করে ভাড়া বাড়ানো হয়নি। বিদ্যমান ভাড়ায় যাত্রী পরিবহন করবেন বাস মালিকরা।

বুধবার (১২ জানুয়ারি) দুপুরে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) চেয়ারম্যান নূর মোহাম্মদ মজুমদার অংশীজনদের সঙ্গে বৈঠক শেষে গণমাধ্যমকর্মীদের এসব তথ্য জানান। গত সোমবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা প্রজ্ঞাপনে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আনতে ১৩ জানুয়ারি থেকে মোট আসনের অর্ধেক যাত্রী নিয়ে বাস চলাচলের নির্দেশনা দেওয়া হয়।

তবে এ নির্দেশনার পর থেকেই ভাড়া বাড়ানোর জন্য সরকারের ওপর চাপ দেওয়া শুরু করেন বাস মালিকরা। এ পরিস্থিতিতে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) প্রধান কার্যালয় বনানীতে আজ (১২ জানুয়ারি) দুপুরের পর সংশ্লিষ্ট অংশীজনদের নিয়ে বৈঠকে বসে বিআরটিএ। ওই বৈঠকে, বাসভাড়া না বাড়িয়ে যাত্রী পরিবহনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

বিআরটিএ চেয়ারম্যান নূর মোহাম্মদ মজুমদার বলেন, বৈঠকে পরিবহন মালিক এবং শ্রমিক সংগঠনের শীর্ষ নেতারা প্রস্তাব করেছেন, বিধিনিষেধ চলাকালে বাস ও মিনিবাসে শতভাগ যাত্রী পরিবহন করা হলে মালিকদের লোকসান গুনতে হবে না। ৫০% যাত্রী পরিবহন করা হলে রাজধানীতে পরিবহন সংকট চরম আকার ধারণ করবে ও যাত্রীদের দুর্ভোগ সীমাহীন পর্যায়ে পৌঁছাবে। এ অবস্থায় বাস ও বাস টার্মিনালে শতভাগ স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করে এখন যেভাবে বাস ও মিনিবাসে যাত্রী পরিবহন করা হচ্ছে সেভাবে শতভাগ যাত্রী পরিবহন করা উচিত।

বিআরটিএ চেয়ারম্যান বলেন, পরিবহন মালিক ও শ্রমিক প্রতিনিধিদের এ প্রস্তাব সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট নীতিনির্ধারকদের কাছে পাঠানো হবে। তারপর এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে।

নূর মোহাম্মদ মজুমদার বলেন, এখন বাস ভাড়া বাড়ানো যৌক্তিক হবে না। কারণ গত নভেম্বর মাসে জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধির পরিপ্রেক্ষিতে বাসে যাত্রী পরিবহনের ভাড়া বাড়ানো হয়েছে। এ বিষয়টি নিয়ে পরিবহন মালিক ও শ্রমিক নেতাসহ সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আমাদের ব্যাপক আলোচনা হয়েছে। তারা সবশেষে একমত হয়েছেন যে ভাড়া বাড়ানো হলে যাত্রীদের ওপর বেশি চাপ তৈরি করা হবে এবং এটি এ মুহূর্তে বাড়ানো যৌক্তিক হবে না।

বৈঠকে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক সমিতি, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনসহ বিভিন্ন সংগঠনের প্রতিনিধিরা বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর