আজঃ সোমবার ০৮ মার্চ ২০২১
শিরোনাম

বাস-ট্রাক সংঘর্ষে ঝিনাইদহে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১২

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৯৯জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ঝিনাইদহে বাস-ট্রাক মুখোমুখি সংঘর্ষে আহতদের মধ্যে যশোর সদর হাসপাতালে আরও একজন মারা গেছেন। তার বাড়ি ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার জগন্নাথপুর গ্রামে। এ নিয়ে নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১২ জনে।

হাসপাতালে এখনও চিকিৎসাধীন রয়েছেন বেশ কয়েকজন। খুলনা থেকে ছেড়ে আসা জে কে ট্রাভেলস পরিবহনের যাত্রীবাহী একটি বাস ঝিনাইদহের বারোবাজার এলাকায় পৌঁছালে নিয়ন্ত্রণ হারায়।

এ সময় বিপরীত দিক থেকে আসা পণ্যবাহী একটি ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়। ঘটনাস্থলেই মারা যান নারী ও শিশুসহ বাসের ৯ যাত্রী। হাসপাতালে মারা যান আরো ২ জন।

বারোবাজার হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মেসবাহ উদ্দিন এই তথ্য নিশ্চিত করে জানান, দুর্ঘটনায় ঘটনাস্থলে নিহত হন নয়জন এবং হাসপাতালে নেওয়ার পর দুজন মারা যান।

Share

আরও খবর
ঝিনাইদহে দুই মোটরসাইকেলে সংঘর্ষ, নিহত ৩

শনিবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১

ঝিনাইদহে বাস উল্টে নয়জন নিহত

বুধবার ১০ ফেব্রুয়ারী ২০২১




বগুড়ার পৌর মেয়র বিএনপির বাদশা

প্রকাশিত:সোমবার ০১ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০১ মার্চ ২০২১ | ৯০জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বগুড়া পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে বিপুল ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন বিএনপি মনোনীত প্রার্থী রেজাউল করিম বাদশা। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী ব্যবসায়ী আব্দুল মান্নান আকন্দ।

রোববার (২৮ ফেব্রুয়ারি) রাতে এ ফল ঘোষণা করা হয়। পৌরসভার ২ লাখ ৭৫ হাজার ৮৭০ জন ভোটারের মধ্যে ১ লাখ ৬৫ হাজার ১১২ জন ভোট দিয়েছেন। যা মোট ভোটের ৫৯.৮৫ শতাংশ।

নির্বাচনে মেয়র পদে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী রেজাউল করিম বাদশা ধানের শীষ প্রতীকে পেয়েছেন ৮২ হাজার ২১৭ ভোট, স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল মান্নান আকন্দ জগ প্রতীকে পেয়েছেন ৫৬ হাজার ৯০, আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আবু ওবায়দুল হাসান ববি নৌকা প্রতীকে পেয়েছেন ২০ হাজার ৮৯ ভোট।

উল্লেখ্য, গতকাল সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত পঞ্চম ধাপে বগুড়া পৌর নির্বাচন ইভিএম পদ্ধতিতে ভোটগ্রহণ হয়। নির্বাচনের পরিবেশ শান্তিপূর্ণ রাখতে ১৬ প্লাটুন বিজিবি, ৫টি স্ট্রাইকিং ফোর্স প্রয়োজনীয় সংখ্যক র‌্যাব, পুলিশ, আনসার সদস্য কাজ করেন।

নিউজ ট্যাগ: বগুড়া
Share

আরও খবর



প্রকাশ্যে এসে হইচই ফেলে দিয়েছেন সাদ্দাম হোসেনের মেয়ে

প্রকাশিত:বুধবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ১৪৪জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দীর্ঘদিন পর প্রকাশ্যে এসে হইচই ফেলে দিয়েছেন ইরাকের সাবেক প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের বড় মেয়ে রাগাদ সাদ্দাম হোসেন। সৌদির আল আরাবিয়া টিভিকে এক সাক্ষাৎকার দেয়ার পর বাগদাদ, রিয়াদ ও আম্মানের মধ্যে কূটনৈতিক টানাপড়েনও দেখা দিয়েছে।

সৌদির স্যাটেলাইট চ্যানেল আল আরাবিয়ার সোহাইব চারেইরের একটি প্রোগ্রামে ওই সাক্ষাৎকার দেন ইরাকের ক্ষমতাচ্যুত প্রেসিডেন্ট সাদ্দামের বড় মেয়ে। রাগাদের কাছে চারেইর জানতে চান, ইরাকের রাজনীতিতে তিনি কোনও ভূমিকা রাখতে পারেন কিনা।

ওই সাক্ষাৎকার প্রচারিত হওয়ার পর ইরাকের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জর্ডান ও সৌদি আরবের রাষ্ট্রদূতদের ডেকে পাঠিয়েছে। টিভি রাগাদের হাজির হওয়ার তীব্র প্রতিবাদ জানায় ইরাক। ২০০৩ সালে যুক্তরাষ্ট্র ইরাকে হামলা করার সময় থেকেই জর্ডানের রাজধানী আম্মানে বসবাস করছে রাগাদ।

রাগাদ ইরাকের রাজনীতি শিগিগিরই সরাসরি কোনও ভূমিকা পালনের ইচ্ছা পোষণ করেন কিনা এমনটা জানতে চান চারেইর। জবাবে রাগাদ বলেন, সবকিছু সম্ভব। এসময় তিনি এই অঞ্চলে ইরানের হস্তক্ষেপের কঠোর সমালোচনা করেন। এমনকি ইরাকে সত্যিকারের কোনও শক্তির অভাবে ইরান সুযোগ নিচ্ছে বলেও মন্তব্য করেন রাগাদ।

Share

আরও খবর



‘হয় পরীক্ষা নাও, না হয় জীবন নাও’

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৬৯জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

তিন বছর ধরে থার্ড ইয়ারে আছি। ২০১৯ সালের পরীক্ষা আমরা ২০২১ সালে এসে দিচ্ছি। আমাদের বন্ধুরা প্রাইভেটে পড়ে গ্র্যাজুয়েশন শেষ করে জবে ঢুকে গেছে। আর আমরা অর্ধেক পরীক্ষা দিয়ে আবারও আটকে গেলাম। আমরা চাই চলমান পরীক্ষা নির্ধারিত শিডিউলে নেওয়া হোক।

বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) নীলক্ষেত অবরোধ চলাকালে ঢাকা কলেজের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের ২০১৬-১৭ সেশনের তৌকির আহমেদ নিজেদের শিক্ষাজীবন দীর্ঘ হওয়ার কথা বলছিলেন।

শিক্ষার্থীরা জানান, ২০১৫-১৬ সেশনের ২৪ ফেব্রুয়ারির পরীক্ষাটা বাকি ছিল। কিন্তু গতকাল আকস্মিক নোটিশে পরীক্ষা স্থগিত হওয়ার ফলে অর্নাস কমপ্লিট হলো না। অপরদিকে ২০১৬-১৭ সেশনের ২৫, ২৮ ফেব্রুয়ারি ও ৩, ৬ মার্চ পরীক্ষা ছিল।

তিতুমীর কলেজের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের কুতুব উদ্দীন বলেন, আমরা একমাস ধরে পরীক্ষা দিচ্ছি। তখন করোনা হলো না। কোন যুক্তিতে আজকের পরীক্ষা স্থগিত হলো। আমরা অনতিবিলম্বে পরীক্ষা দিয়ে গ্র্যাজুয়েশান শেষ করতে চাই।

কর্মসূচি পালনকালে শিক্ষার্থীরা বিভিন্ন প্ল্যাকার্ড প্রদর্শন করেন। দাবি মোদের একটাই, পরীক্ষা চাই। পরীক্ষা কেন স্থগিত প্রশাসন জবাব চাই, রক্ত চাইলে রক্ত নিন তবুও পরীক্ষা নিন। শিক্ষার্থীদের কয়েকজন কাফনের কাপড় পরে রাস্তায় শুয়ে পড়ে। বুকে লাল কালিতে লেখা পরীক্ষা নাও, না হয় জীবন নাও

নিউজ ট্যাগ: ঢাকা কলেজ
Share

আরও খবর
ঢাবিতে ভর্তির আবেদন শুরু

সোমবার ০৮ মার্চ ২০২১




তালিকা মিললো আড়াই হাজার স্বাধীনতাবিরোধীর

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৫৭জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

স্বাধীনতাবিরোধীদের পূর্ণাঙ্গ তালিকা চেয়ে চিঠি দেয়ার পর এখন পর্যন্ত দুই হাজার ৫০৪ জনের তালিকা পাওয়া গেছে। জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও যুদ্ধকালীন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডাররা এ তথ্য দিয়েছেন। এর মধ্যে বিভিন্ন জেলা-উপজেলা থেকে ৮৯৭ জন এবং বৃহত্তর রংপুর জেলা থেকে ১৬০৭ জনের নাম পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির ১৮তম বৈঠকে এ তথ্য জানানো হয়।

বৈঠকের কার্যপত্র থেকে জানা যায়, এর আগে সংসদীয় কমিটি রাজাকার ও স্বাধীনতাবিরোধীদের তালিকা এখন পর্যন্ত যতটুকু পাওয়া গেছে, তা অবিলম্বে গেজেট আকারে প্রকাশের সুপারিশ করে। এর প্রেক্ষিতে এ তথ্য জানানো হয়।

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব (কাউন্সিল অফিসার) মো. জাহাঙ্গীর হোসেন স্বাক্ষরিত প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, স্বাধীনতাবিরোধী রাজাকার, আলবদর, আল-শামস ও শান্তি কমিটির সদস্যদের সঠিক ও পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রণয়নের লক্ষ্যে একটি উপকমিটি গঠন করা হয়েছে।উপ-কমিটির কাছ থেকে তালিকা পাওয়া গেলে প্রাপ্ত তালিকাসহ যাচাই-বাছাইপূর্বক গেজেট আকারে প্রকাশের অনুরোধ জানিয়ে জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের কাছে পাঠানো হবে।

বৈঠকে শেষে সংসদীয় কমিটির সভাপতি ও সাবেক নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান জাগো নিউজকে বলেন, যাচাই-বাছাই অনির্দিষ্টকাল চলতে পারে না এবং এটাকে নিয়মিতকরণ বলে সংজ্ঞায়িত করে প্রক্রিয়াটি দ্রুত সম্পন্নের সুপারিশ করা হয়। এছাড়া বীর মুক্তিযোদ্ধাদের চিকিৎসা সেবা বৃদ্ধির লক্ষ্যে শারীরিক পরীক্ষা-নিরীক্ষা এবং ঔষধ কেনার প্রয়োজনীয় অর্থ বৃদ্ধির ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য কমিটি সুপারিশ করে।

জানা গেছে, বীর মুক্তিযোদ্ধাদের পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রকাশের লক্ষ্যে জেলা ও উপজেলার সংশ্লিষ্ট সবার সমন্বয়ে শিগগিরই চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশের সুপারিশ করা হয়। পরবর্তী প্রজন্মকে অবহিত করার উদ্দেশ্যে বঙ্গবন্ধু কর্ণার ও পাঠাগার স্থাপনের পরমর্শ দেয়া হয়েছে।

কমিটির সভাপতি শাজাহান খানের সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, মেজর (অব.) রফিকুল ইসলাম, কাজী ফিরোজ রশীদ ও মোছলেম উদ্দিন আহমদ অংশ নেন। এছাড়া বৈঠকে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব, বিভিন্ন সংস্থা প্রধানসহ মন্ত্রণালয় এবং সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Share

আরও খবর



ট্রেনের নিচে প্রেমিক-প্রেমিকার ঝাঁপ

প্রকাশিত:রবিবার ০৭ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৭ মার্চ ২০২১ | ৮৪জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরে চলন্ত ট্রেনের নিচে ঝাঁপ দিয়েছে প্রেমিক যুগল। এতে প্রেমিক শান্ত (২০) নিহত হলেও প্রেমিকা মাহমুদাকে (১৭) আশঙ্কাজনক অবস্থায় উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

শনিবার বিকেলে ঢাকা-সিলেট রেলপথে উপজেলার পাহাড়পুর ইউনিয়নের চানপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত শান্ত ওই গ্রামের হামদু মিয়ার ছেলে এবং মাহমুদা একই গ্রামের মোরশেদ মিয়ার মেয়ে। তবে ঠিক কী কারণে ট্রেনের নিচে ঝাঁপ দিয়েছে সেটি জানা যায়নি।

পাহাড়পুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আবুল কালাম আরটিভি নিউজকে জানান, শান্ত ও মাহমুদার মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। বিকেলে বাড়ির সামনে সিলেটগামী আন্তঃনগর জয়ন্তিকা এক্সপ্রেস ট্রেনের নিচে একসঙ্গে ঝাঁপ দেয় ওই যুগল। এতে ট্রেনে কাটা পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায় শান্ত। এ ঘটনায় গুরুতর আহত মাহমুদাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।

আখাউড়া রেলওয়ে থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মাজহারুল করিম জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। বিস্তারিত জেনে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নিউজ ট্যাগ: ব্রাহ্মণবাড়িয়া
Share

আরও খবর