আজঃ শনিবার ০৬ মার্চ ২০২১
শিরোনাম
হানিফ ফ্লাইওভারে

বাসের ধাক্কায় ঝরলো দুই প্রাণ

প্রকাশিত:শনিবার ২৩ জানুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৯২জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীর হানিফ ফ্লাইওভারে বাসের ধাক্কায় মোটরসাইকেলের চালকসহ দুজনের মৃত্যু হয়েছে। তারা হলেন- মো. আকতার হোসেন (৩৭) ও মফিজুল ইসলাম (৪২)।

শনিবার (২৩ জানুয়ারি) বিকেলে এ ঘটনা ঘটে। ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ি ইনচার্জ বাচ্চু মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, এ ঘটনায় সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশকে জানানো হয়েছে।

জানা গেছে, শনিবার বিকেল সাড়ে চারটার দিকে আকতার হোসেন মোটরসাইকেল নিয়ে জয়কালী মন্দির সংলগ্ন হানিফ ফ্লাইওভারের কাছে আসেন। এ সময় দ্রুতগামী জৈন্তাপুর বাস মোটরসাইকেলটিকে ধাক্কা দেয়। এ সময় মোটরসাইকেল আরোহী ছিটকে পড়েন। মোটরসাইকেলটি মফিজুল ইসলামের  উপরে পড়ে। পরে দুজনই আহত হন। এরপর স্থানীয়রা তাদের ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

আক্তার হোসেন নারায়ণগঞ্জের একটি বেসরকারি কোম্পানিতে চাকরি করেন। মফিজুল ইসলাম কমিউনিটি পুলিশে দীর্ঘদিন ধরে কর্মরত ছিলেন।  আক্তার হোসেনের বাসা আজিমপুর স্টাফ কোয়ার্টারে। তার স্ত্রী ঢাকা ঢামেক হাসপাতালের সিনিয়র স্টাফ নার্স।

Share

আরও খবর



বিশ্বে করোনায় সুস্থ হয়েছে ৯ কোটি ৬ লাখেরও বেশি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০২ মার্চ 2০২1 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০২ মার্চ 2০২1 | ৮৭জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে ৫ লাখ ২৭ হাজার ২২৬ জন এখন পর্যন্ত মারা গেছেন। বিশ্বে সর্বোচ্চ আক্রান্তের সংখ্যাও এই দেশটিতে

বিশ্বে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির সংখ্যা কোনোভাবেই কমছে না। সবশেষ করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১১ কোটি ৪৯ লাখ ৮৬ হাজার ৭২৫ জন। আর এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বিশ্বে মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৫ লাখ ৪৯ হাজার ৭২৪ জনে। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছে ৯ কোটি ৬ লাখ ৯৫ হাজার ৬০১ জন। করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটার থেকে এই তথ্য জানা যায়।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের সবশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে ৫ লাখ ২৭ হাজার ২২৬ জন এখন পর্যন্ত মারা গেছেন। বিশ্বে সর্বোচ্চ আক্রান্তের সংখ্যাও এই দেশটিতে। এই পর্যন্ত ২ কোটি ৯৩ লাখ ১৪ হাজার ২৫৪ জন এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের পর মৃত্যু বিবেচনায় করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ হচ্ছে ব্রাজিল। লাতিন আমেরিকার দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে ১ কোটি ৫ লাখ ৮৯ হাজার ৬০৮ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ২ লাখ ৫৫ হাজার ৮৩৬ জনের। তবে মৃত্যু বিবেচনায় মেক্সিকোর অবস্থান তৃতীয়। আক্রান্তের দিক থেকে দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসা ভারত মৃত্যু বিবেচনায় আছে চতুর্থ অবস্থানে। এ পর্যন্ত দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ১১ লাখ ২৩ হাজার ৬১৯ জন। আর মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৫৭ হাজার ২৭৫ জনের। দেশে করোনাভাইরাসের আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে। এখন পর্যন্ত মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৮ হাজার ৪১৬ জনে। এছাড়াও এখন পর্যন্ত দেশে মোট শনাক্তের সংখ্যা ৫ লাখ ৪৬ হাজার ৮০১ জন।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীন থেকে সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর বিশ্বব্যাপী ছড়িয়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। গত বছরের ১১ মার্চ করোনাভাইরাস সংকটকে মহামারি ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

নিউজ ট্যাগ: করোনাভাইরাস
Share

আরও খবর



সবজির দামে কৃষক খুশি হলেও ক্রেতাদের উঠছে নাভিশ্বাস

প্রকাশিত:বুধবার ০৩ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ০৩ মার্চ ২০২১ | ৭৪জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শীতের সবজি শেষ। এখন উঠতে শুরু করেছে নতুন সবজি পোটল, করলা, শজনে ডাটা, মিষ্টি কুমড়া। তবে নতুন এসব সবজির দাম আকাশছোঁয়া। সবজির এ দামে কৃষক খুশি হলেও ক্রেতাদের উঠছে নাভিশ্বাস।

সবজির পাইকারি হাটে শীতের ফুলকপি, বাঁধাকপি, মুলার জমজমাট সরবরাহ নেই। নতুন করে উঠতে শুরু করেছে মিষ্টি কুমড়া, পোটল আলু, বেগুন, করলা, শজনে ডাঁটা। তবে এসবের সরবরাহ সীমিত থাকায় দাম কিছুটা চড়া। বর্তমান বাজারমূল্য নিয়ে খুশি সবজি চাষিরা।

করোনার পর আয় রোজগার না বাড়লেও চাল, ডাল, তেলসহ সবজিসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বেশি হওয়ায় হিশশিম খাচ্ছেন ক্রেতারা। তারা বলছেন, ব্যাপকভাবে সবজির দাম বেড়েছে। শাক সবজিসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম বেড়ে যাওয়ায় হিমশিম খেতে হচ্ছে।

পাইকারি ক্রেতারা বলছেন, সরবরাহ কম থাকায় দাম বেড়েছে সবজির। তারা বলছেন, এখন এলাকায় আবাদ না থাকায় বাইরে থেকে আমদানি করা হচ্ছে।

বগুড়া মহাস্থান পাইকারি সবজি হাটে বুধবার পোটল ৬৫, করলা ৭০, বেগুন ৪০, মিষ্টি কুমরা ১৫ টাকা, গোল আলু ১২ টাকা কেজি দরে বিক্রি হয়। প্রতিদিন এই বাজারে ৫০ থেকে ৬০ ট্রাক সবজির সরবরাহ হয়।

নিউজ ট্যাগ: সবজির দাম
Share

আরও খবর
রাজধানীতে মাছের বাজারে আগুন

শনিবার ০৬ মার্চ ২০২১




জবি ট্রেজারারের বাসার ছাদ থেকে পড়ে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর রহস্যজনক মৃত্যু

প্রকাশিত:শনিবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৯৪জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মেহেরাবুল ইসলাম, জবি প্রতিনিধি:

রাজধানীর ধানমন্ডিতে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) বর্তমান ট্রেজারারের বাসার ছাদ থেকে পড়ে গিয়ে তাজরিয়ান মোস্তফা মৌমিতা (২০) নামের এক বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে।

শনিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) এই ঘটনায় জবি ট্রেজারার অধ্যাপক ড. কামালউদ্দীন আহমদের ছেলে ফাইজারের বন্ধু আদনানকে আটক করেছে পুলিশ। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন নিউমার্কেট জোনের এডিসি ইহসানুল ফেরদৌস।

তিনি জানান, বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর মৃত্যুর ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করা হয়েছে। ওই ছাত্রীর ময়নাতদন্তের পর মৃত্যু আসল কারণ জানা যাবে।

তরুণীর স্বজনদের দাবি, মালয়েশিয়ার একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া ছাত্রী করোনার সময় দেশে আসেন। একই ভবনের চতুর্থ তলায় ভাড়া থাকেন মৌমিতা পরিবার। নিহত তরুণীকে একই ভবনের পঞ্চম তলায় থাকা বাড়ির মালিকের ছেলে ফাইজার ও তার বন্ধু আদনান উত্ত্যক্ত করতো। এ ব্যাপারে ছেলেটির পরিবারকে জানানো হলে তারা কোনো কর্ণপাত করেনি। বরং নিহত শিক্ষার্থীর মাকে হুমকি করে। এ ঘটনার জন্য উত্ত্যক্তকারী ফাইজার ও আদনানকে সন্দেহ করছেন তারা।

এ বিষয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার অধ্যাপক ড. কামালউদ্দীন আহমদ বলেন, এই ঘটনার সাথে আমার ছেলে জড়িত নয়। ঘটনার পরে আমি ছাদ বন্ধ করে দিতে বলি। পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করছে।

উল্লেখ্য যে, শুক্রবার রাতে রাজধানীর ধানমন্ডিতে মালয়েশিয়ার একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া তরুণী তাজরিয়ান মোস্তফা মৌমিতাকে বাসার ছাদ থেকে ফেলে দিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠে।

Share

আরও খবর



জন্মলগ্ন থেকেই ষড়যন্ত্রের রাজনীতি করে আসছে বিএনপি : সেতুমন্ত্রী

প্রকাশিত:শনিবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০21 | হালনাগাদ:শনিবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০21 | ৬৩জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, কর্মীদের রোষানল থেকে বাঁচতে এবং পদ-পদবি ধরে রাখতে বিএনপির কিছু কিছু ফরমায়েশি নেতা ধান ভানতে শিবের গীত গেয়ে যাচ্ছেন।

সেতুমন্ত্রী আজ শনিবার সকালে তাঁর সরকারি বাসভবনে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এ কথা বলেন।

দিনক্ষণ ঠিক করে সরকার পতনের ঘোষণা দেওয়া বিএনপির নতুন কোনো দেশবিরোধী ষড়যন্ত্রের অংশ কি না, সে জন্য জনগণকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সরকার পতনের সাইরেন বেজে গেছে বিএনপির নেতাদের এমন বক্তব্য প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, আন্দোলন ও নির্বাচনে ব্যর্থতার গ্লানি ঢাকতে বিএনপি নেতাদের এটি আত্মতুষ্টি লাভের অপচেষ্টা মাত্র। জনবিরোধী কর্মসূচির কারণে জনগণ বিএনপিকে অনেক আগেই লালকার্ড দেখিয়েছে বলে মন্তব্য করেন ওবায়দুল কাদের।

আওয়ামী লীগের শেকড় মাটির অনেক গভীরে এবং বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার প্রতি জনমানুষের আস্থা ইস্পাত কঠিন উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, শেখ হাসিনা সরকার ঠুনকো কোনো জিনিস নয় যে, ধাক্কা লাগলেই পড়ে যাবে।

বিএনপির রাজনীতি বৈপরীত্যে ভরা জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, তাদের কোনো কোনো নেতার মস্তিষ্ক অপপ্রচার আর গুজব তৈরির উর্বর কারখানা।

ওবায়দুল কাদের বলেন, সরকারের সবকিছুতেই অন্ধ সমালোচনা আর নেতিবাচকতা বিএনপির রাজনীতি। এ রাজনীতি থেকে বেরিয়ে না এলে জনগণই বিএনপিকে বিদায়ের সাইরেন বাজিয়ে দিবে।

নিউজ ট্যাগ: ওবায়দুল কাদের
Share

আরও খবর



৩১ পৌরসভায় ভোট রবিবার, মধ্যরাতে শেষ হচ্ছে প্রচারণা

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৯১জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দেশের তিন শতাধিক পৌরসভার মধ্যে পঞ্চম ধাপে ৩১টি পৌরসভায় ভোট হবে আগামী রবিবার। সেদিন সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত একটানা ভোট চলবে। এসব পৌরসভায় ভোট হবে ইভিএমে।

পঞ্চম ধাপে যেসব পৌরসভায় ভোট হচ্ছে এসব পৌরসভায় প্রচার-প্রচারণা শেষ হবে আজ মধ্যরাতে। তার আগে শেষ মুহূর্তের গণসংযোগে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন মেয়র-কাউন্সিলর প্রার্থীরা।

শেষ মূর্হতেও সুষ্ঠু ভোট নিয়ে শঙ্কা জানিয়েছেন বিএনপি ও স্বতন্ত্র অনেক প্রার্থী। নির্বাচনী এলাকায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে জোরদার ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

গত ১৯ জানুয়ারি নির্বাচন কমিশন সভায় পঞ্চম ধাপে এসব পৌরসভা নির্বাচনের সময়সূচির কথা জানায় ইসির জ্যেষ্ঠ সচিব মো. আলমগীর।

ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ছিল ২ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত, বাছাই ৪ ফেব্রুয়ারি। এরপর ১১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের সময় দেয়া হয়েছিল।

দেশে পৌরসভা রয়েছে মোট ৩২৯টি। করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে ইতোমধ্যে চার ধাপে অনেক পৌরসভায় নির্বাচন করেছে কমিশন।

প্রথম ধাপের তফসিলের ২৪টি পৌরসভায় গত ২৮ ডিসেম্বর ইভিএমে ভোট হয়েছে; এরপর ১৬ জানুয়ারি ভোট হয়েছে দ্বিতীয় ধাপের ৬১ পৌরসভায়। তৃতীয় ধাপে ৬৪টি পৌরসভায় ৩০ জানুয়ারি এবং চতুর্থ ধাপে ৫৮ পৌরসভায় ১৪ ফেব্রুয়ারি ভোট হয়।

আইন অনুযায়ী, মেয়াদ শেষের পূর্ববর্তী ৯০ দিনের মধ্যেই পৌরসভার ভোট করতে হয়। স্থানীয় সরকার আইন সংশোধনের পর ২০১৫ সালে পৌরসভায় প্রথম দলীয় প্রতীকে ভোট হয়েছিল।

পঞ্চম ধাপে যেসব পৌরসভায় ভোট হবে

চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া, রাউজান, মিরসরাই ও বারইয়ারহাট, লক্ষ্মীপুরের রায়পুর, চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল, হবিগঞ্জ জেলার হবিগঞ্জ, জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জ, ইসলামপুর, মাদারগঞ্জ ও জামালপুর সদর, রাজশাহীর চারঘাট ও দুর্গাপুর, বগুড়া জেলার বগুড়া সদর, মানিকগঞ্জের সিংগাইর, চাঁদপুরের মতলব ও শাহরাস্তি, যশোরের কেশবপুর ও যশোর সদর, মাদারীপুরের শিবচর ও মাদারীপুর সদর, রংপুরের হারাগাছ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর, ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ ও মহেশপুর, জয়পুরহাটের জয়পুরহাট সদর, ময়মনসিংহের নান্দাইল, ভোলার ভোলা সদর এবং গাজীপুরের কালীগঞ্জ।

Share

আরও খবর