আজঃ বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২
শিরোনাম

বগুড়ায় স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে প্রভাষক গ্রেপ্তার

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৩ মে ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৩ মে ২০২২ | ৬৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বগুড়ার ধুনটে দশম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে মুরাদুজ্জামান মুকুল নামে এক প্রভাষককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়ার পর বৃহস্পতিবার রাতে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি গত কয়েক মাস যাবৎ ঐ ছাত্রীকে বিভিন্ন সময় ভয়ভীতি দেখিয়ে ধর্ষণ করে আসছিলেন।

গ্রেপ্তারকৃত মুকুলের বাড়ি উপজেলার এলাঙ্গী ইউনিয়নের শৈলমারী গ্রামে। মুকুল ধুনটের জালশুকা হাবিবুর রহমান কলেজের ইসলামের ইতিহাস বিভাগের প্রভাষক। 

মামলা সূত্রে জানা গেছে, গ্রেপ্তার মুকুল ধুনট পৌর এলাকার দক্ষিণ অফিসারপাড়া এলাকার একটি বাসার নিচতলায় ভাড়া থাকতেন। ঐ বাড়ির মালিকের দুই বছর বয়সী ছেলে খেলাধুলা করতে প্রায়ই মুরাদুজ্জামানের ফ্ল্যাটে যাওয়া-আসা করতো। সেই সুবাদে বাড়ির মালিকের বড় মেয়ে দশম শ্রেণির ছাত্রীও সেখানে যেত।

এদিকে মুকুলের স্ত্রীও স্কুলের শিক্ষিকা হওয়ায় তিনি বাড়িতে থাকতেন না। এই সুযোগে মুকুল কয়েক মাস আগে মেয়েটিকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন। সে সময় ধর্ষণের ভিডিও চিত্র ধারণ করে রাখেন। এরপর ওই ভিডিওটি ফেসবুকে ভাইরাল করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করেন মুকুল।

সর্বশেষ বৃহস্পতিবারও মেয়েটিকে ধর্ষণের চেষ্টা সে চিৎকার দিলে তার খালা সেখানে উপস্থিত হলে মুকুল কৌশলে পালিয়ে যান। এরপর মেয়েটি তার পরিবারের কাছে সম্পূর্ণ ঘটনা খুলে বললে তার মা বাদী হয়ে বৃহস্পতিবার রাতে ধুনট থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, স্কুলছাত্রীর মা বাদী হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে মামলার আসামিকে আটক করা হয়। এরপর অভিযোগটি মামলা হিসেবে নথিভূক্ত করে তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। আগামীকাল তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হবে।


আরও খবর



আফগানিস্তানে ভারী বৃষ্টি-বন্যায় নিহত ২২

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৫ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৫ মে ২০২২ | ৩৭০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আফগানিস্তানে ভারী বৃষ্টি ও বন্যায় অন্তত ২২ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। এর মধ্যেই এবার দেশটিতে তীব্র বৃষ্টির ফলে বন্যার সৃষ্টি হয়েছে। এতে অন্তত ২২ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এছাড়া অসংখ্য ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত এবং ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ফসলের জমি। খবর প্রকাশ করেছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আজ বৃহস্পতিবার (৫ মে) আফগানিস্তানের জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগ জানিয়েছে, দেশের এক তৃতীয়াংশেরও বেশি প্রদেশে দুর্যোগ ব্যবস্থার মোকাবিলা করছে তালেবান সরকার। সাহায্যের জন্য আন্তর্জাতিক ত্রাণ সংস্থাগুলোর কাছেও যাবে তারা।

আফগানিস্তানের জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষের যোগাযোগ ও তথ্য প্রধান হাসিবুল্লাহ শেখানি বলেন, ১২টি প্রদেশে বন্যা ও ঝড়ের কারণে ২২ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছেন আরও ৪০ জন।

এর বাইরে ৫০০ ঘরবাড়ি ধ্বংস, ২ হাজার বাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত, ৩০০ গবাদি পশুর মৃত্যু এবং প্রায় ৩ হাজার একর ফসল ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, যোগ করেন তিনি।


আরও খবর



সাহরির আগ পর্যন্ত চলে কেনাকাটা

প্রকাশিত:রবিবার ২৪ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ২৪ এপ্রিল ২০২২ | ৪৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আসন্ন ঈদুল ফিতর সামনে রেখে চট্টগ্রাম নগরীর বিভিন্ন মার্কেটে জমে উঠেছে কেনাকাটা। নগরীর জহুর হকার্স মার্কেটে প্রত্যেক দিন সকাল থেকে মধ্যরাতে সাহরির আগ পর্যন্ত ভিড় করছেন ক্রেতারা। ঈদের দিন যত ঘনিয়ে আসছে, ক্রেতাদের ভিড়ও বাড়ছে। দোকানিরা বলছেন, ২০ রোজার পর থেকে দম ফেলার সুযোগ পাচ্ছেন না। শেষ রোজা পর্যন্ত এভাবে চললে গত দুই বছর করোনার কারণে যে ক্ষতি হয়েছে, তা পুষিয়ে লাভের মুখ দেখতে পারবেন তারা।

সরেজমিনে জহুর হকার্স মার্কেটে গিয়ে দেখা গেছে মাঝরাতেও নানা শ্রেণি-পেশার অসংখ্য ক্রেতা কেনাকাটা করছেন। এ মার্কেটের পাঁচ শতাধিক দোকানে ব্যবসায়ীরা নিত্যনতুন ব্র্যান্ডের শার্ট, প্যান্ট, গেঞ্জি, টি-শার্টসহ বিভিন্ন পোশাক সাজিয়ে রেখেছেন। নারী-পুরুষ ও শিশুদের পোশাকের তুলনামূলক দাম কম হওয়ায় এ মার্কেটের প্রতি বরাবরই সবার আগ্রহ বেশি থাকে। ক্রেতাদের বাড়তি চাপ সামালাতে দোকানে বিক্রয়কর্মীও বাড়িয়েছেন ব্যবসায়ীরা।

এ হকার্স মার্কেটে ৩০০ থেকে ৭০০ টাকার মধ্যে শার্ট, প্যান্ট, টি-শার্ট ও গেঞ্জি পাওয়া যায়। আবার মানভেদে অনেক পোশাক ১ হাজার টাকায়ও বিক্রি হচ্ছে। ছেলেমেয়েকে নিয়ে হকার্স মার্কেটে কেনাকাটা করতে আসা হাফিজুল আহমদ জানান, ছেলেমেয়ে ও আত্মীয়স্বজনদের জন্য ঈদের কেনাকাটা করতে এসেছেন তিনি। দিনে ব্যস্ত থাকতে হয় বলে রাতে এসেছেন। গত দুই বছর করোনার কারণে তেমন কেনাকাটা করা হয়নি। প্রতি বছর এ মার্কেট থেকেই কেনাকাটা করেন। এখানে কাপড়ের দাম একটু কম। তবে এবার কাপড় অনুসারে দোকানিরা দাম কিছুটা বেশি নিচ্ছেন বলে জানান তিনি।

ফাহিমা সরকার নামে এক গৃহবধূ জানান, অন্যান্য মার্কেটের চেয়ে হকার্স মার্কেটে পোশাক কম দামে পাওয়া যায়। তা ছাড়া অন্যান্য মার্কেট আগেভাগে বন্ধ হয়ে গেলেও এটি চলে সারা রাত। এজন্য পরিবারের সবার জন্য পোশাক কিনতে এসেছেন বলে জানান তিনি। বিক্রয়কর্মী শাহেদ আহমেদ জানান, ১০ রোজা পর্যন্ত বেচাকেনা একেবারেই ছিল না। তবে ১৫ রোজার পর থেকে মানুষ আসছেন। বেচাকেনাও খুব ভালো হচ্ছে। আশা করছি করোনায় দুই বছর যে ব্যবসায়িক ধাক্কা খেয়েছি, তা এবার পুষিয়ে যাবে। তবে এবার ক্রেতারা একটু বেশি দর কষাকষি করছেন বলে অভিযোগ তার।

চট্টগ্রামের সম্মিলিত হকার্স ফেডারেশনের সভাপতি মিরন হোসেন মিলন জানান, করোনা সংক্রমণ তেমন না থাকায় এবার মানুষ বাইরে বের হচ্ছেন। মার্কেটগুলোতে ভালো বেচাকেনা হচ্ছে। জহুর হকার্স মার্কেটের ছোট-বড় পাঁচ শতাধিক দোকানে ১৫ রোজার পর থেকে ক্রেতা ঠেলে নড়ানো যাচ্ছে না। সাহরির আগ পর্যন্ত বিকিকিনি চলছে। ঈদ উপলক্ষে ব্যবসায়ীরা দোকানে বিক্রয়কর্মী বাড়িয়েছেন। তারা পালাক্রমে দায়িত্ব পালন করছেন। এমন বেচাবেনা চাঁদরাত পর্যন্ত চলবে বলে আশা করছেন তিনি।

নিউজ ট্যাগ: চট্টগ্রাম

আরও খবর
ফের বাড়লো স্বর্ণের দাম

মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২




এসএসসি পরীক্ষা শুরু ১৯ জুন, রুটিন প্রকাশ

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ২৭ এপ্রিল ২০২২ | ৪৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

২০২২ সালের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পরীক্ষার রুটিন প্রকাশ করেছে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড। সবগুলো পরীক্ষা দুপুর ২টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হবে। বুধবার (২৭ এপ্রিল) বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রয়ক অধ্যাপক এস.এম. আমিরুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রকাশিত রুটিনের তথ্যানুযায়ী, আগামী ১৯ জুন বাংলা প্রথম পত্র (১০১) ও সহজ বাংলা প্রথম পত্রের (১০৩) পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। লিখিত পরীক্ষা শেষ হবে আগামী ০৬ জুলাই। এরপর ১৩ জুলাই থেকে শিক্ষার্থীদের ব্যবহারিক পরীক্ষা শুরু হবে। এ পরীক্ষা আগামী ২০ জুলাইয়ের মধ্যে শেষ করতে বলা হয়েছে।

পরীক্ষার্থীদের জন্য বেশকিছু নির্দেশনা দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড। নির্দেশনাগুলো হলো- পরীক্ষা শুরুর ৩০ (ত্রিশ) মিনিট পূর্বে অবশ্যই পরীক্ষার্থীদেরকে পরীক্ষা কক্ষে আসন গ্রহণ করতে হবে; প্রশ্নপত্রে উল্লিখিত সময় অনুযায়ী পরীক্ষা গ্রহণ করতে হবে।

প্রথমে বহুনির্বাচনি ও পরে সৃজনশীল/রচনামূলক (তত্ত্বীয়) পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে এবং উভয় পরীক্ষার মধ্যে কোনো বিরতি থাকবে না। বহুনির্বাচনী (MCQ) পরীক্ষার ক্ষেত্রে সময় ২০ মিনিট এবং সৃজনশীল (CQ) /রচনামূলক পরীক্ষার ক্ষেত্রে সময় ১ ঘণ্টা ৪০ মিনিট; পরীক্ষার্থীগণ তাদের প্রবেশপত্র নিজ নিজ প্রতিষ্ঠান প্রধানের নিকট হতে পরীক্ষা আরম্ভের কমপক্ষে তিনদিন পূর্বে সংগ্রহ করবে।

সকল শিক্ষাবর্ষের পরীক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে শারীরিক শিক্ষা, স্বাস্থ্য বিজ্ঞান ও খেলাধুলা এবং ক্যারিয়ার শিক্ষা বিষয়সমূহ এনসিটিবির নির্দেশনা অনুসারে ধারাবাহিক মূল্যায়নের মাধ্যমে প্রাপ্ত নম্বর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রকে সরবরাহ করবে। সংশ্লিষ্ট কেন্দ্র ব্যবহারিক পরীক্ষার নম্বরের সাথে ধারাবাহিক মূল্যায়নে প্রাপ্ত নম্বর বোর্ডের ওয়েবসাইটে অনলাইনে প্রেরণ করবে।

পরীক্ষার্থীগণ তাদের নিজ নিজ উত্তরপত্রের OMR ফরমে তার পরীক্ষার রোল নম্বর, রেজিস্ট্রেশন নম্বর, বিষয় কোড ইত্যাদি যথাযথভাবে লিখে বৃত্ত ভরাট করবে। কোন অবস্থাতেই উত্তরপত্র ভাঁজ করা যাবে না, পরীক্ষার্থীকে সৃজনশীল/রচনামূলক (তত্ত্বীয়), বহুনির্বাচনি ও ব্যবহারিক অংশে পৃথকভাবে পাস করতে হবে।

প্রত্যেক পরীক্ষার্থী কেবল নিবন্ধনপত্রে বর্ণিত বিষয়/বিষয়সমূহের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে। কোন অবস্থাতেই ভিন্ন বিষয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে না, কোন পরীক্ষার্থীর পরীক্ষা (সৃজনশীল/রচনামূলক (তত্ত্বীয়), বহুনির্বাচনি ও ব্যবহারিক) নিজ বিদ্যালয়ে/প্রতিষ্ঠানে অনুষ্ঠিত হবে না। পরীক্ষার্থী স্থানান্তরের মাধ্যমে আসন বিন্যাস করতে হবে; পরীক্ষার্থীগণ পরীক্ষায় নন-প্রোগ্রামাবল সায়েন্টিফিক ক্যালকুলেটর ব্যবহার করতে পারবে।

কেন্দ্র সচিব ছাড়া অন্য কোন ব্যক্তি/পরীক্ষার্থী পরীক্ষা কেন্দ্রে মোবাইল ফোন আনতে এবং ব্যবহার করতে পারবেন না; সৃজনশীল/রচনামূলক (তত্ত্বীয়), বহুনির্বাচনি ও ব্যবহারিক পরীক্ষায় পরীক্ষার্থীর উপস্থিতির জন্য একই উপস্থিতি পত্র ব্যবহার করতে হবে, ব্যবহারিক পরীক্ষা স্ব স্ব কেন্দ্র ভেন্যুতে অনুষ্ঠিত হবে; পরীক্ষার ফল প্রকাশের ৭ (সাত) দিনের মধ্যে পুনঃনিরীক্ষার জন্য অনলাইনে SMS এর মাধ্যমে আবেদন করা যাবে।


আরও খবর



ময়মনসিংহে দেবরের দায়ের কোপে ভাবির মৃত্যু

প্রকাশিত:বুধবার ১৮ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১৮ মে ২০২২ | ২৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ময়মনসিংহের তারাকান্দায় বাঁশ কাটাকে কেন্দ্র করে দেবরের দায়ের কোপে জাহানারা বেগম (৪৫) নামে এক নারী নিহত হয়েছেন। এ সময় স্ত্রীকে উদ্ধার করতে গেলে মো. ইদ্রিছ আলীকেও কুপিয়ে ও পিটিয়ে গুরুতর আহত করা হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের বাহেলা গ্রামের মৃত লাল হোসেন খাঁর পুত্র ইদ্রিস আলীর সঙ্গে সহোদর ভাই সিদ্দিকুর রহমান ও হাবিবুর রহমানের জমাজমি ভাগবন্টন নিয়ে বিরোধ সৃষ্টি হয়। সোমবার ইদ্রিস আলী পৈত্রিক জমিতে থাকা বাশঁ কাটতে গেলে তার বড় ভাই সিদ্দিকুর রহমান বাধা দেয়। এ নিয়ে বাকবিতণ্ডা হয় এবং ইদ্রিছ আলীকে হত্যার হুমকি দেয়।

মঙ্গলবার (১৭ মে) বেলা সাড়ে ১১টায় ইদ্রিছ আলী স্থানীয় বাজার থেকে বাজার নিয়ে বাড়িতে ফিরে। এসময় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে সহোদর ভাই সিদ্দিকুর রহমান ও হাবিবুর রহমানসহ ৮/১০ জন ধারালো অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে ইদ্রিছ মিয়াকে (৫০) তার ঘরে ঢুকে জখম করে। জাহানারা বেগম স্বামীকে উদ্ধার করতে গেলে তাকেও কুপিয়ে ও পিটিয়ে গুরুতর জখম করে ফেলে রাখে।

নিহতের মেয়ে ঝর্ণা আক্তার (২২) ও তামান্না আক্তার (১৪) জানায়, গুরুতর আহত অবস্থায় জাহানারা বেগম ও ইদ্রিছ আলীকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার মাকে মৃত ঘোষণা করে।

তারাকান্দা থানার ওসি আবুল খায়ের জানান, খুনের আলামত জব্দসহ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। আসামি গ্রেফতার ও মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

নিউজ ট্যাগ: ময়মনসিংহ

আরও খবর



গম লুটপাট করছে রুশ সেনারা: ইউক্রেন

প্রকাশিত:রবিবার ০১ মে ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০১ মে ২০২২ | ৪০৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইউক্রেনের খেরসনসহ অধিকৃত বিভিন্ন অঞ্চল থেকে রুশ সেনারা গম লুট করে নিয়ে যাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছে দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এক বিবৃতিতে মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে এই অভিযোগ জানানো হয়েছে বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তাসংস্থা রয়টার্স। তবে রাশিয়ার প্রেসিডেন্টের কার্যালয় ক্রেমলিন থেকে বলা হয়েছে, এ সম্পর্কিত কোনো তথ্য রুশ সরকারের কাছে নেই।

বিবৃতিতে ইউক্রেনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে বলা হয়, খেরসন ও তার আশপাশের বিভিন্ন এলাকার কৃষকদের কাছ থেকে গম লুটপাট করার অভিযোগ এসেছে। আমরা এই অপরাধমূলক তৎপরতার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। আমরা চাই, অবিলম্বে এসব অপতৎপরতা বন্ধ হোক, অধিকৃত বন্দরসমূহ ফের চালু করা হোক এবং বাণিজ্যিক জাহাজের গতিপথ থেকে সব মাইন অপসারণ করা হোক।

ইউক্রেনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অভিযোগ, মহামারির কারণে বিশ্বে খাদ্যপণ্যের মূল্যবৃদ্ধির চলমান সংকটকে আরও তীব্র করতেই রুশ সেনাদের এই নির্দেশ দিয়েছে মস্কো। বিবৃতিতে এ সম্পর্কে বলা হয়, একদিকে রুশ সেনারা খেরসন অঞ্চলে গম লুটপাট করছে, অন্যদিকে ইউক্রেনের বিভিন্ন বন্দরে খাদ্যশস্যবাহী জাহাজগুলো আটকে রেখেছে এবং বাণিজ্যিক জাহাজের গতিপথে মাইন পেতে রেখেছে। বৈশ্বিক খাদ্য নিরাপত্তাকে বিপন্ন করতেই এ পন্থা বেছে নিয়েছে তারা।

এদিকে, পৃথক এক বিবৃতিতে শুক্রবার ইউক্রেনের প্রসিকিউটর জেনারেলর দপ্তর থেকে বলা হয়, গত ২৬ এপ্রিল ইউক্রেনের দক্ষিনাঞ্চলীয় শহর জাপোরিজ্জয়ায় অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে ইউক্রেনীয় কৃষকদের কাছ থেকে ৬১ টন গম লুট করে নিয়ে গেছে রুশ সেনারা। এই ঘটনার জেরে ইতোমধ্যে ইউক্রেনের সরকারের পক্ষ থেকে একটি ফৌজদারি মামলাও করা হয়েছে বলে বিবৃতিতে উল্লেখ করেছে প্রসিকিউটর জেনারেলের দপ্তর।

ইউক্রেনের সরকারের এই অভিযোগ যাচাই করতে ম্যাসেজিং অ্যাপ টেলিগ্রামের মাধ্যমে ক্রেমলিনে যোগাযোগ করেছিল রয়টার্স। জবাবে ক্রেমলিনের মুখপাত্র ও প্রেস সেক্রেটারি দিমিত্রি পেসকভ বলেন, আমরা এ ব্যাপারে কিছু জানি না। এসব তথ্য কোত্থেকে তারা (ইউক্রেন) পেয়েছে তাও বলতে পারছি না।

আন্তর্জাতিক খাদ্যশস্য কাউন্সিলের তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বে গম রপ্তানিতে শীর্ষে থাকা দেশের তালিকায় ৪র্থ স্থানে আছে ইউক্রেন। প্রতিবছর ৪৪ দশমি ৭ মিলিয়ন গম বৈশ্বিক বাজারে সরবরাহ করে দেশটি। তবে চলতি বছর দেশটিতে রুশ সামরিক অভিযান শুরুর পর থেকে ব্যাপকভাবে হ্রাস পেয়েছে রপ্তানির পরিমাণ।

নিউজ ট্যাগ: ইউক্রেন

আরও খবর