আজঃ শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১
শিরোনাম

এবার লক্ষ্মীপুরে ছয় মাদ্রাসাছাত্রের চুল কেটে দিলেন শিক্ষক

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৮ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৮ অক্টোবর ২০২১ | ৫৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের পর এবার লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার হামছাদী কাজীর দীঘিরপাড় আলিম মাদরাসার এক শিক্ষক ছয় ছাত্রের চুল কেটে দিয়েছেন। মাদ্রাসার সহকারী শিক্ষক মঞ্জুরুল কবির মঞ্জুর বিরুদ্ধে এ অভিযোগ পাওয়া গেছে।

গত বুধবার মাদরাসার বারান্দায় ঘটনাটি ঘটে বলে জানা গেছে। এ ঘটনার এক মিনিট ১০ সেকেন্ডের একটি ভিডিও আজ শুক্রবার সকাল থেকেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে যায়। এতে দেখা যায়, শিক্ষক মঞ্জুরুল কবির মঞ্জু দাখিল শিক্ষার্থীদের ইচ্ছের বিরুদ্ধে সারিবদ্ধভাবে দাঁড় করিয়ে কাঁচি দিয়ে চুল কেটে দিচ্ছেন।

যাদের চুল কেটে দেওয়া হয়েছে সেই শিক্ষার্থীরা জানায়, তারা গত বুধবার শ্রেণিকক্ষে পাঠ কার্যক্রমে অংশ নেয়। এক পর্যায়ে শিক্ষক মঞ্জুরুল কবির ছয়জনকে শ্রেণিকক্ষের সামনের বারান্দা আসতে বলেন। এ সময় তিনি উত্তেজিত হয়ে একটি কাঁচি এনে একে একে সবার মাথার টুপি সরিয়ে সামনের অংশের এলোমেলোভাবে চুল কেটে দেন। এরপর ছাত্রদের কান্না করতে দেখা যায়। পরে তারা লজ্জায় ক্লাস না করেই বের হয়ে যায়।

এ ব্যাপারে জানতে শিক্ষক মঞ্জুরুল কবির মঞ্জুর মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

বামনী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন দাবি করেন, শিক্ষক মঞ্জুরুল কবির মঞ্জু জামায়াতে ইসলামীর রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত। তিনি বামনী ইউনিয়ন শাখা জামায়াতের আমির। তিনি ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে সবসময় দলীয় প্রভাব বিস্তারের চেষ্টা করেন। তার ভয়ে অন্য শিক্ষকরাও নিরুপায়।

হামছাদী কাজীর দীঘিরপাড় আলিম মাদরাসার সুপার মাওলানা বালাকাত উল্যা বলেন, আমি অসুস্থ রয়েছি। চুল কাটার ঘটনাটি শুনেছি। কোনো ছাত্র লিখিত অভিযোগ করেনি। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

রায়পুর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা এ কে এম সাইফুল হক বলেন, বিভিন্ন মাধ্যমে ঘটনাটি জেনেছি। কেউ অভিযোগ করেনি। সুনির্দিষ্ট অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ ব্যাপারে লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসক (ডিসি) আনোয়ার হোছাইন আকন্দ বলেন, ঘটনাটি আমি জানি না। এ বিষয়ে খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পুলিশকে বলা হবে।

এর আগে ২৬ সেপ্টেম্বর সিরাজগঞ্জ রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৪ শিক্ষার্থীর মাথার চুল কেটে দেওয়ার ঘটনায় দেশব্যাপী তোলপাড় হয়। অপমান সইতে না পেরে শিক্ষার্থী নাজমুল হোসেন তুহিন ছাত্রাবাসে গিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। এ ঘটনায় তদন্ত কমিটির রিপোর্টের পরিপ্রেক্ষিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ফারহানা ইয়াসমিন বাতেনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। প্রাথমিকভাবে তদন্ত কমিটি ছাত্রদের চুল কেটে দেওয়ার প্রমাণ পেয়েছে বলেও জানানো হয়েছে।

এর মধ্যেই লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার হামছাদী কাজীর দীঘিরপাড় আলিম মাদরাসায় ছয় ছাত্রের চুল কেটে দেওয়ার ঘটনা ঘটল।


আরও খবর



সারাদেশে আজ আবহাওয়া যেমন থাকবে

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | ৩৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দেশের বেশির ভাগ অঞ্চলে আজ অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে। তবে চট্টগ্রাম বিভাগের দু-এক জায়গায় বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সোমবার (১১ অক্টোবর) সকাল থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এমন তথ্য জানানো হয়।

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, চট্টগ্রাম ছাড়া দেশের অন্যত্র অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে আবহাওয়া। উত্তর আন্দামান সাগর ও এর কাছাকাছি এলাকায় পরবর্তী তিন দিনে একটি লঘুচাপের সৃষ্টি হতে পারে। এ ছাড়া দিন ও রাতের তাপমাত্রা সারা দেশে প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

গত ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১২ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে ফেনী ও মাইজদীকোর্টে। এ ছাড়া সন্দ্বীপে ১১, কুমিল্লা ও রাজারহাটে ৭ এবং চুয়াডাঙ্গায় ৫ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। এ সময় সামান্য বৃষ্টি হয়েছে ঢাকায়ও। রোববার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা তেঁতুলিয়ায় ২৩ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়।

আবহাওয়ার পূর্বাভাসে আরও বলা হয়, মৌসুমি বায়ুর অক্ষ পূর্ব উত্তরপ্রদেশ, বিহার, পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের মধ্যাঞ্চল হয়ে আসাম পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। বাংলাদেশের ওপর কম সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে দুর্বল অবস্থায় বিরাজ করছে মৌসুমি বায়ু।


আরও খবর
সারা দেশে বৃষ্টির পূর্বাভাস

বুধবার ২০ অক্টোবর ২০21




অবশেষে মনোনয়ন হারালেন মন্দিরে হামলার চার্জশিটভুক্ত ২ আসামি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৪ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৪ অক্টোবর ২০২১ | ২৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পাওয়া বিতর্কিত দুই ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থীর দলীয় মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে। তারা উপজেলায় মন্দিরে ভাঙচুর মামলার চার্জশিটভুক্ত আসামি।

দুই চেয়ারম্যান প্রার্থী হলেন নাসিরনগর সদর ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান মো. আবুল হাশেম ও হরিপুর ইউনিয়নের দেওয়ান আতিকুর রহমান। তাদের মনোনয়ন বাতিল করতে জেলা আওয়ামী লীগ কেন্দ্রে চিঠি পাঠিয়েছিল।

নাসিরনগর সদর ইউনিয়নে আবুল হাসেমের পরিবর্তে সাবেক ইউপি সদস্য (মেম্বার) পুতুল রানী বিশ্বাস এবং হরিপুর ইউনিয়নে দেওয়ান আতিকুর রহমানের পরিবর্তে ওয়াসিম আহমেদকে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকার।

২০১৬ সালের ৩০ অক্টোবর ফেসবুকে গুজব ছড়ানো হয়। গুজবের জেরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে তাণ্ডব চালিয়ে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের ১০টি মন্দিরসহ অন্তত শতাধিক বাড়িঘর ভাঙচুর করা হয়। এ ঘটনায় নাসিরনগর গৌরমন্দির কমিটির সাধারণ সম্পাদক নির্মল চৌধুরী বাদী হয়ে দুই থেকে আড়াই হাজার অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিকে আসামি করে একটি মামলা করেন।

এ ব্যাপারে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আল মামুন সরকার বলেন, আবুল হাশেম ও দেওয়ান আতিকুর রহমানের মনোনয়ন বাতিল করতে কেন্দ্রে চিঠি পাঠিয়েছিলাম। কেন্দ্র থেকে তাদের দুইজনের মনোনয়নপত্র বদল করে নতুন প্রার্থী দেওয়া হয়েছে। বিষয়টি আমাদের কেন্দ্র থেকে জানানো হয়েছে।

নিউজ ট্যাগ: মন্দিরে হামলা

আরও খবর
পাতে টক দই, বাগবিতণ্ডায় কনের বাবার মৃত্যু

বৃহস্পতিবার ০৭ অক্টোবর ২০২১

৭০ বছর পর ছেলেকে ফিরে পেলেন শতবর্ষী মা

শনিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১




কক্সবাজারে সাড়ে ৭ কোটি টাকার মাদকসহ আটক ১

প্রকাশিত:বুধবার ০৬ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ০৬ অক্টোবর ২০২১ | ৬৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় দেড় কেজি ওজনের ক্রিস্টাল মেথ আইসসহ এক যুবককে আটক করেছেন বিজিবি সদস্যরা।

বুধবার (৬ অক্টোবর) দুপুরে টেকনাফস্থ ২ বিজিবি ব্যাটলিয়ানে এক সংবাদ সম্মেলনে অধিনায়ক লে. কর্ণেল মোহাম্মদ ফয়সাল হাসান খান এ সব তথ্য জানান।

আটককৃত যুবক টেকনাফ সদরের মধ্যম গোদারবিল এলাকার হোছেন আলীর ছেলে মো. আব্দুল মুজিব (২০)।

বিজিবি অধিনায়ক লে. কর্ণেল মোহাম্মদ ফয়সাল হাসান খান জানান, মঙ্গলবার (৫ অক্টোবর) রাতে টেকনাফ-২ বিজিবির একটি বিশেষ টহলদল গোপন খবরের ভিত্তিতে গোদারবিল এলাকার ৩ তলা বিশিষ্ট একটি বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে আব্দুল মজিদকে আটক করে। এ সময় একটি মোটরসাইকেল ও ২টি প্যাকেট উদ্ধার করা হয়। উদ্ধার প্যাকেটের ভেতর থেকে দেড় কেজি ওজনের ক্রিস্টাল মেথ আইস পাওয়া যায়। উদ্ধার ক্রিস্টাল মেথ আইসের আনুমানিক মূল্য সাড়ে ৭ কোটি টাকা।

তিনি আরও জানান, উদ্ধার ক্রিস্টেল মেথ আইসসহ আটককৃত ব্যক্তিকে টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা করা হবে।

নিউজ ট্যাগ: মাদকসহ আটক

আরও খবর



‘ফোনের কথোপকথনে হত্যা-ধর্ষণ প্রমাণ হয়না’

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৫ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৫ অক্টোবর ২০২১ | ৫১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মুনিয়ার হত্যা ও ধর্ষণের মামলা তদন্ত করছে পিবিআই। ৮নম্বর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে করা মামলার তদন্ত অনেকদূর এগিয়েছে বলে পিবিআই সূত্রে জানা গেছে। উল্লেখ্য যে মুনিয়ার বড় বোন নুসরাত তানিয়া এই মামলাটি দায়ের করেন। গুলশানের একটি ফ্ল্যাটে এপ্রিলে মারা যান মুনিয়া। তার মৃত্যুর পর প্রথমে মুনিয়ার বোন নুসরাত তানিয়া একটি আত্মহত্যার প্ররোচনার মামলা দায়ের করেছিলেন। তিন মাস তদন্তের পর গুলশান থানা আত্মহত্যার প্ররোচনার কোন প্রমাণ না পাওয়ায় চূড়ান্ত প্রতিবেদন জমা দেয়। কিন্তু মুনিয়ার বড় বোন নুসরাত তানিয়া ওই পুলিশ প্রতিবেদন প্রত্যাখ্যান করেন এবং নারাজি দরখাস্ত দেন। এরপর আদালত ওই নারাজি দরখাস্তটি নাকচ করে দেয়। পরবর্তীতে নুসরাত তানিয়া নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে হত্যা ও ধর্ষণের অভিযোগে মামলা করেন, ট্রাইব্যুনালে এই মামলা তদন্ত দিয়েছে পিবিআইকে। একাধিক সূত্র বলছে যে এখন পর্যন্ত যে সমস্ত আলামত এবং তথ্য-প্রমাণ দেওয়া হয়েছে তাতে হত্যা বা ধর্ষণের কোন কিছুই প্রমাণ হয়না। বিভিন্ন সূত্র বলছে হত্যা এবং ধর্ষণের জন্য কয়েকটি সুনির্দিষ্ট বিষয়ে লাগে।

১. শারীরিক উপস্থিতির প্রয়োজন হয়। কিন্তু এখন পর্যন্ত তদন্তে শারীরিক উপস্থিতির কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি।

২. হত্যা বা ধর্ষণের ক্ষেত্রে যে আলামতগুলো দরকার সে ধরনের কোনো আলামত বাদীপক্ষ এখন পর্যন্ত দিতে পারেনি।

৩. হত্যা বা ধর্ষণের যে সাক্ষ্য প্রমাণের বিষয় থাকে, সেই সাক্ষ্য-প্রমাণও এখন পর্যন্ত অনুপস্থিত।

বিভিন্ন সূত্র বলছে যে একটি হত্যা মামলায় সুনির্দিষ্ট উপস্থিতিটিই সবচেয়ে প্রধান উপজীব্য বিষয়। কিন্তু মুনিয়ার কথিত হত্যা ও ধর্ষণ মামলায় কোন সুনির্দিষ্ট শারীরিক উপস্থিতির প্রমাণ মেলেনি। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন কর্মকর্তা বলেছেন যে শুধুমাত্র ফোনের কথোপকথনে বা বিভিন্ন মেসেজ আদান প্রদানের মাধ্যমে হত্যা ধর্ষণ প্রমাণ হয় না। ফোনে হত্যা করা যায় না বা মেসেজ দিয়ে হত্যা করা যায়না, হত্যার জন্য যে উপস্থিতির প্রয়োজন সেই উপস্থিতি সম্পর্কে কোন তথ্য প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তাছাড়া শুধু উপস্থিত থাকলেই হবে না, যিনি হত্যা ও ধর্ষণের জন্য উপস্থিত হয়েছেন সে ক্ষেত্রে প্রত্যক্ষদর্শীর কোন সাক্ষ্য বা প্রমাণ লাগবে।

এই মামলার বাদী নিজেই বলেছেন তিনি কুমিল্লা থেকে আসছিলেন এবং কুমিল্লা থেকে আসার পথে কয়েকদফা তার সঙ্গে মুনিয়ার কথাবার্তা হয়েছে। কাজেই তিনি প্রত্যক্ষদর্শী সাক্ষীনন এবং ওই ফ্ল্যাটে যারা দায়িত্বে ছিলেন গার্ড বা অন্যান্য প্রতিবেশীরা তারা কেউই মুনিয়াকে হত্যা করা হয়েছে বা মুনিয়ার বাসায় প্রবেশ করে কেউ তাকে হত্যা করেছে এমন সাক্ষ্য প্রমাণ দিতে পারেননি। ফলে যে সমস্ত অভিযোগ বা তথ্য প্রমাণ দিয়ে মুনিয়ার হত্যা-ধর্ষণের মামলা করা হয়েছে সেগুলো আইনের চোখে অগ্রহণযোগ্য বলেই মনে করছেন বিভিন্ন সূত্র।

বিশেষ করে মুনিয়ার হত্যাকাণ্ডের প্রধান তথ্য প্রমাণ হিসেবে দেওয়া হয়েছে কিছু টেলি আলাপ এবং কিছু মেসেজ। এই মেসেজ এবং টেলি আলাপ দিয়ে কোন কিছুই প্রমাণিত হয় না বলে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার বিভিন্ন কর্মকর্তারা মনে করছেন। তারা বলছেন যে হত্যা প্রমাণের জন্য যে সমস্ত তথ্য-প্রমাণ বা আলামতের প্রয়োজন তার কোন কিছুই এখানে নেই। সেক্ষেত্রে এই মামলার তদন্ত প্রতিবেদন গুলশান থানা পুলিশের অনুরূপই হতে পারে বলে একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র নিশ্চিত করেছেন।


আরও খবর



সাধারণ সম্পাদকের স্বাক্ষর জাল করে তালিকা পাঠালেন সভাপতি

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৮ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৮ অক্টোবর ২০২১ | ৬৬৬৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পিরোজপুর জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদকের স্বাক্ষর জাল করে কেন্দ্রে তালিকা পাঠানোরও অভিযোগ রয়েছে জেলা সভাপতি একেএমএ আউয়ালের বিরুদ্ধে।

একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশী অভিযোগ করে বলেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি একেএমএ আউয়াল তৃণমূল নেতা-কর্মীদের মতামতকে গুরুত্ব না দিয়ে বির্তকিতদের নামের তালিকা কেন্দ্রে পাঠিয়েছেন। যে তালিকায় জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের স্বাক্ষর নেয়া হয়নি। এ নিয়ে এলাকাবাসী ও দলীয় নেতা-কর্মীদের মধ্যে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

জানা যায়, পিরোজপুর জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুল হাকিম হাওলাদারের স্বাক্ষর জাল করে কেন্দ্রে তালিকা জমা দেওয়া হয়েছে। সেখানে জেলা সভাপতি একেএমএ আউয়ালের স্বাক্ষরও রয়েছে। তবে জেলা সভাপতি এ নিয়ে মুখ খোলেননি। সাধারণ সম্পাদকের স্বাক্ষর জাল করার বিষয়টি প্রথমে বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আফজাল হোসেনকে জানিয়েছেন। পরে দলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম ও সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরকে অবহিত করেছেন।

এ প্রসঙ্গে অ্যাডভোকেট আবদুল হাকিম হাওলাদার অভিযোগ করে বলেন, জেলা থেকে যে তালিকা জমা দেওয়া হয়েছে সে তালিকায় আমি স্বাক্ষর করিনি।

বিষয়টি নিয়ে জেলা সভাপতির সঙ্গে কথা বলার পরামর্শ দেন তিনি। এ প্রসঙ্গে জেলা সভাপতি এ কে এম আবদুল আউয়ালকে একাধিকার ফোন করা হলেও তিনি ধরেননি।

উল্লেখ্য, দ্বিতীয় ধাপে ৮৪৮টি ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। গত ২৯ সেপ্টেম্বর নির্বাচন কমিশনের (ইসি) কমিশন সভা শেষে ইসি সচিব হুমায়ুন কবীর খোন্দকার নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেন।

ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, দ্বিতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ১৭ অক্টোবর। এ ছাড়া মনোনয়নপত্র বাছাই ২০ অক্টোবর, বাছাইয়ের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল দায়ের ২১ থেকে ২৩ অক্টোবর, আপিল নিষ্পত্তি ২৪ ও ২৫ অক্টোবর, প্রার্থিতা প্রত্যাহার ২৬ অক্টোবর, প্রতীক বরাদ্দ ২৭ অক্টোবর ও ১১ নভেম্বর ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।


আরও খবর