আজঃ বৃহস্পতিবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২১
শিরোনাম

ফেনীতে স্ত্রী হত্যা মামলায় স্বামীর মৃত্যুদণ্ড

প্রকাশিত:রবিবার ২১ নভেম্বর 20২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২১ নভেম্বর 20২১ | ৫০৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
পরিবারিক কলহের জের ধরে ২০১৯ সালের ৫ মার্চ রাতে শিরীনকে হত্যা করা হয়। ঘটনার দুইদিন পর খুনের অভিযোগ এনে শিরিনের মা রেজিয়া বেগম বাদী হয়ে

স্ত্রীকে হত্যার দায়ে স্বামী ইয়াছিনকে মৃত্যুদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দিয়েছে ফেনীর জেলা ও দায়রা জজ আদালত।  জেলা ও দায়রা জজ ড. বেগম জেবুননেছা আজ এ রায় দেন।

এ মামলার রায়ে বলা হয়, ফাজিলপুরে আলোচিত গৃহবধূ শিরিন আক্তারকে বৈদ্যুতিক শক দিয়ে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়েছে।

এর আগে কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে দিয়ে আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়।

আদালত সূত্র জানায়, পরিবারিক কলহের জের ধরে ২০১৯ সালের ৫ মার্চ রাতে শিরীনকে হত্যা করা হয়। ঘটনার দুইদিন পর খুনের অভিযোগ এনে শিরিনের মা রেজিয়া বেগম বাদী হয়ে ইয়াছিনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। গ্রেফতারের পর একই বছরের ৮ মার্চ অভিযুক্ত ইয়াছিন আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করে। পরে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই আবু তাহের চলতি বছরের ১৮ জানুয়ারি ইয়াছিনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। পরে ১০ নভেম্বর মামলার চার্জ গঠন হয়। এ মামলায় মোট ২১ জন সাক্ষী এবং ৮ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ হয়েছে।

রাষ্ট্রপক্ষের কৌঁসুলি হাফেজ আহম্মদ বলেন, এ রায়ে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

বাদী পক্ষে আইনজীবী আবদুর সাত্তার বলেন, রায়ে খুশি বাদী পক্ষ। তবে আসামী পক্ষের আইনজীবী বলেন, রায়ে ন্যায় বিচার পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালের ২৬ নভেম্বর সদর উপজেলার ফাজিলপুর এলাকার মো. ইয়াছিনের সঙ্গে শিরীন আক্তারের বিয়ে হয়।

নিউজ ট্যাগ: ফেনী

আরও খবর
ফেনীতে ৫০ কেজি গাঁজাসহ আটক ৪

বুধবার ২০ অক্টোবর ২০21




হেফাজত মহাসচিব মাওলানা নুরুল ইসলাম মারা গেছেন

প্রকাশিত:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ | ৪৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

হেফাজতে ইসলামের মহাসচিব আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদী আর নেই (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। রাজধানীর ল্যাবএইড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার (২৯ নভেম্বর) দুপুর সোয়া ১২টার দিকে তিনি মারা যান। হেফাজতে ইসলামের সাংগঠনিক সম্পাদক মীর মোহাম্মদ ইদ্রিস এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, শনিবার রাত ৯টার দিকে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে ল্যাবএইড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এরপর অবস্থার অবনতি হলে তাকে লাইফ সাপোর্টে নেওয়া হয়। তার আগে শনিবার অনুষ্ঠিত ওলামা মাশায়েখ সম্মেলন বাস্তবায়নে নিয়ে কর্মব্যস্ত ছিলেন নুরুল ইসলাম। সম্মেলন শেষে মাদরাসায় ফেরার পথে গাড়ির মধ্যেই তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। এরপর দ্রুত তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়।

নুরুল ইসলাম জিহাদী শিক্ষাজীবন শেষে পটিয়া থানার কৈয়গ্রাম মাদরাসায় শিক্ষক হিসেবে প্রথম যোগদান করেন। ওই মাদরাসায় এক বছর শিক্ষকতার পর বাবুনগর মাদরাসায় শিক্ষক হিসেবে নিয়োজিত হন। এরপর বাবুনগর মাদরাসায় শিক্ষকতার কয়েক বছর পর ঢাকার আশরাফুল উলুম বড় কাটারা মাদরাসায় ১৯৮২ সাল পর্যন্ত অধ্যাপনা করেন। এ সময়ে তার বাবার মৃত্যুর পর তিনি নিজ বাড়িতে চলে যান এবং পুনরায় বাবুনগর মাদরাসায় যোগদান করেন।

১৯৮৪ সালের ১০ জুলাই তিনি ঢাকার খিলগাঁও-এ আল জামিয়াতুল ইসলামিয়া মাখজানুল উলুম প্রতিষ্ঠা করেন। আমৃত্যু তিনি এই মাদরাসার মহাপরিচালক ও শায়খুল হাদিস হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন। পাশাপাশি তিনি দারুল উলুম হাটহাজারীর মজলিসে শূরা এবং বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় মজলিসে শূরা ও আমেলার গুরুত্বপূর্ণ সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ২০২০ সালের ২৬ ডিসেম্বর তিনি হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব নির্বাচিত হন।


আরও খবর



পুঁজিবাজারে সূচকের উত্থান

প্রকাশিত:রবিবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২১ | ২৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতের শেয়ারের দরপতনের দিনে দাপট দেখাল বিমা, প্রকৌশল এবং বস্ত্র খাত। এই তিন খাতের শেয়ার দাম বাড়ায় সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রোববার (৫ ডিসেম্বর) পুঁজিবাজারে সূচকের উত্থান হয়েছে।

এদিন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক বেড়েছে ২৯ পয়েন্ট। অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক বেড়েছে ১৪৭ পয়েন্ট।

আজ লেনদেন হওয়া অধিকাংশ শেয়ারের দাম বাড়ায় সূচক বাড়লেও লেনদেন কিছুটা কমেছে। বাজার সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বেশির ভাগ কোম্পানির শেয়ারের দাম কমায় শেয়ার বিক্রির প্রবণতায় কমেছে। আর তাতে লেনদেন কম হয়েছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা গেছে, পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত বিমা খাতের ৫২ প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দাম বেড়েছে ৪৯টির, কমেছে ২টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে একটি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের। আর প্রকৌশল খাতের ৪২টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দাম বেড়েছে ৩৪টির, কমেছে চারটির আর অপরিবর্তিত রয়েছে চারটির। এছাড়াও বস্ত্র খাতের ৫৮টি কোম্পানির মধ্যে দাম কমেছে ৮টির আর বেড়েছে ৪১টির। একই দিন অপরিবর্তিত ছিল নয়টি কোম্পানির শেয়ারের দাম।

অপর দিকে ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের প্রায় সব কয়টি শেয়ারের দাম কমেছে। এর ফলে বুধ, বৃহস্পতি এবং রোববার টানা তিনদিন পুঁজিবাজারে উত্থান হলো।

ডিএসইর তথ্য অনুযায়ী, রোববার বাজারে সূচকের তেজিভাবের মধ্য দিয়ে পুঁজিবাজারের লেনদেন শুরু হয়। লেনদেনের প্রথম সোয়া ঘণ্টায় ডিএসইর প্রধান সূচক বাড়ে ৪৮ পয়েন্ট। এরপর হঠাৎ করেই শুরু হয় শেয়ার বিক্রির প্রভাব, যা অব্যাহত ছিল সোয়া ১২টা পর্যন্ত। এই সময়ে সূচক ৫০ পয়েন্টের বেশি কমেছিল। তবে তারপর থেকে সূচক বৃদ্ধি হতে শুরু করে, যা অব্যাহত ছিল দিনের বাকি লেনদেন পর্যন্ত।

এতে দিন শেষে আজ ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩৭৩টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের মধ্যে দাম বেড়েছে ২৪৫টির, কমেছে ৭৯টির। অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৯টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম। ডিএসইর প্রধান সূচক ২৯ পয়েন্ট বেড়ে ৬ হাজার ৯৬৫ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। ডিএসইএক্স সূচক আগের দিনের চেয়ে ২ পয়েন্ট আর ডিএস-৩০ সূচক ২ পয়েন্ট বেড়েছে।

এদিন ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৮৯৪ কোটি ৯৮ লাখ ২৬ হাজার টাকা। বৃহস্পতিবার লেনদেন হয়েছিল ১ হাজার ২৪৫ কোটি ১৯ লাখ ৬ হাজার টাকা। অর্থাৎ আগের দিনের চেয়ে ৩শ কোটি টাকা লেনদেন কমেছে।

ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষে ছিল বেক্সিমকো লিমিটেড, ওয়ান ব্যাংক, ফার্স্ট সিকিউরিটিজ ব্যাংক, ডেল্টা লাইফ, পাওয়ার গ্রিড, ফরচুন সুজ, আইএফআইসি ব্যাংক, ওরিয়ন ফার্মা, সোনালী পেপার ও একমি পেস্টিসাইড লিমিটেড।

অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১৪৭ পয়েন্ট বেড়ে ২০ হাজার ৪০১ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। সিএসইতে লেনদেন হওয়া ২৯৫টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ১৯৫টির শেয়ারের দাম বেড়েছে, কমেছে ৭০টির। অপরিবর্তিত রয়েছে ৩০টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম। এ বাজারে লেনদেন হয়েছে ৬৩ কোটি ৩২ লাখ ৬৬ হাজার ৭০৫ টাকা।


আরও খবর
শেয়ারবাজারে মূল্যসূচকের বড় উত্থান

মঙ্গলবার ০৭ ডিসেম্বর ২০২১

সূচকের উত্থানে লেনদেন শেষ হয়েছে

সোমবার ০৬ ডিসেম্বর ২০২১




জয়পুরহাটে দুই প্রার্থী সমান ভোট পাওয়ায় আবার নির্বাচন

প্রকাশিত:রবিবার ২১ নভেম্বর 20২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২১ নভেম্বর 20২১ | ৭২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দ্বিতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে জয়পুরহাটের ক্ষেতলাল উপজেলার মামুদপুর ইউনিয়নের সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে তিনটি ওয়ার্ডে সর্বোচ্চ ভোট পাওয়া দুজন নারী সমান সংখ্যক ভোট পাওয়ায় ওই পদে কাউকেই বিজয়ী ঘোষণা করা হয়নি। এর ফলে ওই পদের প্রার্থীকে নির্বাচিত করতে আবারও ১৬ গ্রামের মানুষ ভোট দেবেন।

আগামী বুধবার (২৪ নভেম্বর) সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত ওই তিনটি ওয়ার্ডে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এতে সমান ভোট পাওয়া ওই দুজনই প্রার্থী থাকবেন।

ক্ষেতলাল উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, জেলার ক্ষেতলাল উপজেলার মামুদপুর ইউনিয়নের সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে নির্বাচনে ৭, ৮ ও ৯ নম্বর ওয়ার্ডের ১৬টি গ্রামে ৬ হাজার ৭৭৫ ভোটার রয়েছে। গত ১১ নভেম্বর অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ওই তিন ওয়ার্ডের ৫ হাজার ২৪৬ জন ভোটার মামুদপুর দ্বি-মুখী উচ্চ বিদ্যালয়, মামুদপুর দারুল উলুম হাফেজিয়া কওমি মাদরাসা ও এতিমখানা এবং আয়মাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন।

এর মধ্যে ত্রুটির কারণে ৩৮৯ ভোট অবৈধ ঘোষণা করা হয়। অবশিষ্ট ৪ হাজার ৮৫৭ ভোটের মধ্যে সংরক্ষিত নারী সদস্য প্রার্থী আনোয়ারা বিবি (বই প্রতীক) পেয়েছেন ২১৪ ভোট, ফেন্সী বিবি (মাইক প্রতীক) পেয়েছেন ১ হাজার ১৫৯ ভোট এবং অপর দুই প্রার্থী রেখা বিবি (হেলিকপ্টার প্রতীক) ও সাজেদা বেগম (বক প্রতীক) উভয়েই সমান সংখ্যক ১ হাজার ৭৪২ ভোট পেয়েছেন।

ক্ষেতলাল উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. আনিছার রহমান বলেন, সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ওই দুই প্রাথী সর্বোচ্চ ও সমান সংখ্যক ভোট পাওয়ায় কাউকেই বিজয়ী ঘোষণা করা হয়নি। ভোটের ফলাফল নির্বাচন কমিশনে পাঠানো হয়েছিল। নির্বাচন কমিশনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আগামী ২৪ নভেম্বর ওই তিনটি কেন্দ্রে আবারও ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। তবে সমান ভোট পাওয়া রেখা বিবি (হেলিকপ্টার প্রতীক) ও সাজেদা বেগম (বক প্রতীক) দুজনই এবার প্রার্থী থাকবেন।

এর আগে ১১ নভেম্বর দ্বিতীয় ধাপে জয়পুরহাটের ক্ষেতলাল ও আক্কেলপুর উপজেলার ৭টি ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।


আরও খবর
চট্টগ্রামে পাট গুদামে ভয়াবহ আগুন

বৃহস্পতিবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২১




কুষ্টিয়ায় বিআরবি গ্রুপের চেয়ারম্যান মজিবর রহমানকে সংবর্ধনা প্রদান

প্রকাশিত:বুধবার ০১ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ০১ ডিসেম্বর ২০২১ | ২১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

কুষ্টিয়া প্রতিনিধিঃ

কুষ্টিয়ায় বিআরবি গ্রুপের চেয়ারম্যান মজিবর রহমানকে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। বাংলাদেশের শিল্পখাত তথা জাতীয় অর্থনীতিতে সামগ্রিক অবদানের স্বীকৃতি স্বরুপ বিআরবি কেবল ইন্ডাষ্ট্রিজ লিমিটেড বৃহৎ শিল্প ক্যাটাগরিতে রাষ্ট্রপতির শিল্প উন্নয়ন পুরস্কার-২০১৯ ১ম স্থান এবং ২০২০-২১ কর বর্ষে কুষ্টিয়া জেলার সর্বোচ্চ আয়কর প্রদানকারী করদাতা সম্মানে ভূষিত হওয়ায় বিআরবি গ্রুপের চেয়ারম্যান মোঃ মজিবর রহমানকে এ সংবর্ধনা প্রদান করা হয়।

মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) রাতে শহরের দিশা টাওয়ারে দি কুষ্টিয়া চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রির আয়োজনে উক্ত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও কুষ্টিয়া-৩ সদর আসনের সংসদ সদস্য মাহবুব উল আলম হানিফ।

দি কুষ্টিয়া চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রির সভাপতি মোঃ রবিউল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন, কুষ্টিয়া-১ আসনের সংসদ সদস্য আ. ক. ম. সারোয়ার জাহান বাদশা, কুষ্টিয়া-৪ আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার সেলিম আলতাফ জর্জ, কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সদর উদ্দিন খান, সাধারন সম্পাদক মোঃ আজগর আলী, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আতাউর রহমান আতা, কুষ্টিয়া নাগরিক কমিটির সভাপতি অধ্যাপক ডাঃ এস এম মুসতানজীদ প্রমূখ।

নিউজ ট্যাগ: কুষ্টিয়া

আরও খবর
চট্টগ্রামে পাট গুদামে ভয়াবহ আগুন

বৃহস্পতিবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২১




গ্রুপ না বানিয়ে ২৫০ জনকে একসঙ্গে পাঠানো যাবে একই মেসেজ

প্রকাশিত:সোমবার ০৬ ডিসেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৬ ডিসেম্বর ২০২১ | ২৭৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সামনেই নববর্ষের শুভেচ্ছা জানাতে হবে। এখন তো শুভেচ্ছা মেসেজ পাঠানোর প্রধান মাধ্যম হোয়াটস্অ্যাপ। কিন্তু একটাই মুশকিল। হোয়াটস্অ্যাপে একসঙ্গে পাঁচজনের বেশি মেসেজ পাঠানো যায় না। ছবি, ভিডিয়ো ফরোয়ার্ডও করা যায় না। পাঁচজন, পাঁচজন করে ২৫০ জনকে মসেজ পাঠানো যায় ৫০ বারে। কিন্তু এমন কিছু কি করা যায়, যাতে একবারে সকলের কাছে চলে যাবে মেসেজ, ছবি, ভিডিয়ো!

যায়। সেই পদ্ধতি জানা থাকলে হোয়াটস্অ্যাপের মাধ্যমে ২৫০-এর বেশি জনকে একসঙ্গে পাঠানো যাবে যে কোনও মেসেজ। পদ্ধতি বলছে সর্বাধিক ২৫৬ জনকে এই ভাবে মেসেজ পাঠানো যায়। না, এর জন্য কোনও গ্রুপ বানাতে হবে না। তবে একটা প্রস্তুতি পর্ব রয়েছে।

হোয়াটস্অ্যাপের এই পদ্ধতিকে ব্রডকাস্ট লিস্ট বানানো বলে। এর জন্য হোয়াস্অ্যাপে ঢুকে চ্যাট স্ক্রিনের ডানদিকের উপরে তিনটি ডটে আঙুল ছোঁয়াতে হবে। সেখানে ড্রপ ডাউন থেকে বেছে নিতে হবে নিউ ব্রডকাস্ট অপশন। এটায় আঙুল ছোঁয়ালেই মোবাইলে সেভ করা নম্বরের তালিকা দেখাবে।

এখান থেকে বেছে নিতে হবে কাদের কাদের মেসেজ পাঠানো হবে। এখানে একবারে ২৫৬টি নম্বর বাছা যায়। এ বার একটি অ্যারো চিহ্ন দেখা যাবে। সেটা আঙুল ছোঁয়ালেই তৈরি ব্রডকাস্ট গ্রুপ। এ বার মেসেজ পাঠিয়ে দিলেই সকলের কাছে চলে যাবে।

একসঙ্গে সবাইকে মেসেজ পাঠালেও প্রাপকরা তা বুঝতেও পারবেন না। প্রত্যেকের কাছেই ব্যক্তিগত ভাবে মেসেজ পাঠানো হয়েছে বলে দেখাবে। এমন ২৫৬ জনের অনেকগুলি গ্রুপ বানিয়ে রাখাই যায়। যার এক একটি থেকে একবার করে মেসেজ পাঠালেই বহুজনের কাছে মুহূর্তে পৌঁছে যাবে বার্তা।

 

নিউজ ট্যাগ: হোয়াটস্অ্যাপ

আরও খবর
বিজয়ের মাসেই ফাইভ-জি

বুধবার ০১ ডিসেম্বর ২০২১