আজঃ মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০21
শিরোনাম

ফের মহাসচিব ইবির মীর মোঃ মোর্শেদুর রহমান

প্রকাশিত:বুধবার ০৭ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ০৭ এপ্রিল ২০২১ | ২৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইবি প্রতিনিধি :

বাংলাদেশ আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স ফেডারেশনের সভাপতি পদে মোঃ আমিরুল ইসলাম ও মহা-সচিব পদে মীর মোঃ মোর্শেদুর রহমানকে পুনরায় নির্বাচিত করে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের অফিসারদের সংগঠন "বাংলাদেশ আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স ফেডারেশনের ২০২১-২০২২ মেয়াদি কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটি ঘোষণা করেছে সংগঠনটি।

বিগত কমিটির মেয়াদ পূর্তিতে গত ২০ মার্চ ২০২১ শনিবার প্রাচ্যের অক্সফোর্ড খ্যাত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি'র মুনির চৌধুরী মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সাধারণ সভায় ফেডারেশনের উপদেষ্টা ও জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট সদস্য জনাব মো. মাসুদুর রহমান কে প্রধান নির্বাচন কমিশনার, জনাব মোহাম্মদ  নাজমুল হক ও রাধেশ্যাম কে নির্বাচন কমিশনার করে শক্তিশালী নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়।

বৈশ্বিক মহামারী কোভিড-১৯ পরিস্থিতির মধ্যেও ত্রিশের অধিক বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্বাচিত প্রতিনিধিসহ  সাধারণ সভায় উপস্থিত ৮০ জনের অধিক কর্মকর্তার মতামতের ভিত্তিতে সভাপতি ও মহাসচিব পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ফেডারেশনের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী নির্বাচন কমিশন সভাপতি ও মহাসচিব পদে প্রার্থী হিসেবে নাম প্রস্তাবের আহ্বান জানালে সভাপতি পদে সদ্য সাবেক সভাপতি জনাব মো. আমিরুল ইসলাম এবং মহাসচিব পদে সদ্য সাবেক মহাসচিব জনাব মীর মো. মুর্শেদুর রহমান এর নাম প্রস্তাব ও সমর্থন করা হয়। সভাপতি এবং মহাসচিব পদে আর কোন প্রার্থী আছেন কিনা আলাদাভাবে পর পর তিন বার ঘোষণা করার পরেও আর কোন প্রার্থী না থাকায় প্রধান নির্বাচন কমিশনারের নেতৃত্বাধীন নির্বাচন কমিশন "বাংলাদেশ আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স ফেডারেশনের ২০২১-২০২২ মেয়াদি কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটি" এর সভাপতি পদে জনাব মো. আমিরুল ইসলাম (সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়) এবং মহাসচিব পদে জনাব মীর মো. মুর্শেদুর রহমান (সাধারণ  সম্পাদক, কর্মকর্তা সমিতি, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়া ) কে বিজয়ী ঘোষণা করেন। উপস্থিত সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তাবৃন্দ নবনির্বাচিত সভাপতি ও মহাসচিব কে আন্তরিক অভিনন্দন জানান। নবনির্বাচিত সভাপতি এবং মহাসচিব এর সঙ্গে পরামর্শ করে আগামী ১৫ (পনের)  দিনের মধ্যে একটি প্রতিনিধিত্বশীল পূর্ণাঙ্গ কমিটি উপহার দেওয়ার বিষয়ে প্রধান নির্বাচন কমিশনার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

গত ০৩ এপ্রিল ২০২১ শনিবার ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটি মিলনায়তনে দেশের ৩৫ এর অধিক বিশ্ববিদ্যালয়ের শতাধিক কর্মকর্তার উপস্থিতিতে প্রধান নির্বাচন কমিশনার জনাব মো. মাসুদুর রহমান এর নেতৃত্বাধীন নির্বাচন কমিশন ফেডারেশনের ২০২১-২০২২ মেয়াদি পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করেন। কমিটিতে সিনিয়র সহসভাপতি পদে জনাব মোহাম্মদ মফিজুল ইসলাম মজনু (সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন,  মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, টাঙ্গাইল ), সহসভাপতি পদে- ১. প্রকৌশলী সৈয়দ মোহাম্মদ ইকরাম (সাবেক সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন,  চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম), ২. প্রকৌশলী হুসাইন মুহাম্মদ এরশাদ (সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন,  খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা), ৩. মোহাম্মদ হামিদ হাসান নোমানী (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার সমিতি, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম), ৪. মো. আবু হাসান (সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন, জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়), ৫. মো. খাইরুল আলম নান্নু (সভাপতি, অফিসার পরিষদ, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ময়মনসিংহ), ৬. এম তাজিম উদ্দিন (সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন,  শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেট), ৭. তারেক মো. রাশেদ উদ্দিন (সাবেক সভাপতি, অফিসার সমিতি, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, নোয়াখালী),  যুগ্ম-মহাসচিব পদে- ১. মো. নজরুল ইসলাম হীরা (সাবেক সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, গোপালগঞ্জ), ২. ......  রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, ৩. মো. রফিকুল ইসলাম (সাবেক সভাপতি, অফিসার সমিতি,  পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, পাবনা), ৪. ডাঃ আইরিন সুলতানা (সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন, চট্টগ্রাম মেডিকেল  বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম), ৫. মো. আলতাফ হোসেন (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার সমিতি,  জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা), সাংগঠনিক সম্পাদক পদে- ১. সাখাওয়াত হোসেন (সভাপতি, অফিসার সমিতি,  নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, নোয়াখালী),  ২. ডাঃ ফখর উদ্দিন (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার পরিষদ,  সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেট), ৩. এ এম শাহাদাত হোছাইন জুয়েল (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার্স এসোসিয়েশন, চট্টগ্রাম মেডিকেল  বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম), ৪. মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন মোল্লা (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার সমিতি, ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি  বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা), ৫. বাহাউদ্দিন গোলাপ (সভাপতি , অফিসার্স এসোসিয়েশন, বরিশাল  বিশ্ববিদ্যালয়, বরিশাল ), ৬. মো. আসাদুজ্জামান আসাদ (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার পরিষদ, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ময়মনসিংহ ), ৭. মো. মোর্শেদ উল আলম রনি (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার্স এসোসিয়েশন,  বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়, রংপুর ), ৮.....,  কোষাধ্যক্ষ পদে মো. কামাল হোসেন সরকার (সভাপতি, অফিসার সমিতি,  জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা), প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক পদে মো. শামীম হোসেন খান (সভাপতি, অফিসার্স এসোসিয়েশন, ইসলামী আরবী  বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা), দপ্তর সম্পাদক পদে মো. জসিম উদ্দিন বাদল (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার সমিতি,  পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, দুমকি, পটুয়াখালী ), তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক পদে আবদুল্লাহ আল মামুন  (সভাপতি, অফিসার সমিতি, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়, ত্রিশাল, ময়মনসিংহ), শিক্ষা ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক পদে  আবু মোহাম্মদ আরিফ (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার সমিতি, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়, খুলশী, চট্টগ্রাম), আইন সম্পাদক পদে মো. সিরাজুল ইসলাম উজ্জ্বল (সাধারণ সম্পাদক, অফিসার্স এসোসিয়েশন, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেট), মহিলা বিষয়ক সম্পাদক পদে জিনাত আমান (সভাপতি,  অফিসার সমিতি, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়, কোর্টবাড়ী, কুমিল্লা), সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক পদে দিলীপ কুমার ঘোষ (সভাপতি,  অফিসার্স এসোসিয়েশন, রাজশাহী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী) কে নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়। এছাড়াও সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্বাচিত সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক (যদি ফেডারেশনের কর্মকর্তা হিসেবে নির্বাচিত না হন) পদাধিকার বলে কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য হিসেবে পরিগনিত হবেন। যে সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে নির্বাচিত কর্মকর্তা পরিষদ নাই, সে সকল বিশ্ববিদ্যালয়ে ফেডারেশনের নির্বাহী কমিটির অনুমোদনক্রমে অনূর্ধ দুই জন এবং অন্যূন একজন সদস্য মনোনয়ন দেয়া হবে।

ফেডারেশনের উপদেষ্টামন্ডলীতে আছেনঃ

১. মো. মাসুদুর রহমান, সাবেক সভাপতি,  অফিসার্স সমিতি, জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়, সাভার, ঢাকা।

২. শেখ মুজিবুর রহমান, সভাপতি, অফিসার্স কল্যাণ পরিষদ, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা।

৩. মো. মোক্তাদির হোসেন রাহী, সভাপতি, অফিসার্স সমিতি, রাজশাহী  বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী।

৪. চৌধুরী এম সাইফুল ইসলাম, সভাপতি, অফিসার সমিতি, শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, শেরেবাংলা নগর, ঢাকা।

৫. রশিদুল হায়দার জাবেদ, সভাপতি, অফিসার সমিতি, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম।

৬. ড. মো. আনোয়ারুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক, অফিসার সমিতি, শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, শেরেবাংলা নগর, ঢাকা।

৭. এস এম গোলাম হায়দার, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, গোপালগঞ্জ।

আনন্দঘন পরিবেশে কমিটি ঘোষণার পরে তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় সভাপতি মহোদয় সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন জানান এবং সুন্দর প্রতিনিধিত্বশীল একটি কমিটি গঠনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখায় ফেডারেশনের মহাসচিব সহ প্রধান নির্বাচন কমিশনারের নেতৃত্বাধীন নির্বাচন কমিশন ও সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। অফিসারদের কল্যাণার্থে ফেডারেশনের কার্যক্রম চালিয়ে নিতে সকলের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন। ফেডারেশনের মহাসচিব অফিসারদের আট দফা দাবি নিয়ে প্রেস ব্রিফিং করেন এবং সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশের নিমিত্ত কমিটির কপি সাংবাদিকদের নিকট হস্তান্তর করেন।

দাবিসমূহ হচ্ছেঃ

১. কর্মকর্তাদের প্রারম্ভিক বেতন স্কেল পুননির্ধারণ (শাখা কর্মকর্তা/সমমান ২৩০০০/-, সহকারী রেজিস্ট্রার/চীফ টেকনিক্যাল অফিসার/সমমান ৩৫,৫০০/- নির্বাহী প্রকৌশলী/সমমান ৪৩০০০/-, উপ-রেজিস্ট্রার/সমমান ৫০০০০/-, অতিরিক্ত রেজিস্ট্রার/সমমান ৫৬৫০০/- এবং রেজিস্ট্রার/সমমান ৬৬০০০/-);

২. দেশের সকল পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মকর্তাদের জন্য অভিন্ন নীতিমালা প্রণয়ন করা;

৩. সকল দপ্তর প্রধানসহ নন-টিচিং পদে কর্মকর্তাদের নিয়োগ বাধ্যতামূলক করা;

৪. শিক্ষকদের ন্যায় কর্মকর্তাদের অবসর গ্রহণের বয়সসীমা ৬৫ বৎসরে উন্নীতকরণ;

৫. সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তা সমিতির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে কর্মকর্তাদের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট সভায় অংশগ্রহণ নিশ্চিতকরণ এবং সংবিধিবদ্ধ কমিটি সিন্ডিকেট, সিনেট ও রিজেন্ড বোর্ডে কর্মকর্তা প্রতিনিধি নিশ্চিতকরণ;

৬. সহজ শর্তে ও দ্রুততম সময়ের মধ্যে ৪% সরল সুদে কর্পোরেট ঋণ প্রদান;

৭. কর্মকর্তাদের বুনিয়াদি প্রশিক্ষণ বাধ্যতামূলককরণ এবং নিয়মিত বিষয়ভিত্তিক প্রশিক্ষণ ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর কর্মকর্তাদের উচ্চশিক্ষার জন্য অভিন্ন নীতিমালা প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন এবং

৮. কর্মকর্তাদের অতীত চাকরিকালের অভিজ্ঞতা গণনা সুষমকরণ ও বাস্তবায়ন।

এরপর বিকাল ৪ টায় বাংলাদেশ আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স ফেডারেশনের নব-গঠিত কমিটির পক্ষ থেকে ধানমন্ডি-৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। ওইদিন সন্ধ্যায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর এপিএস-২ জনাব হাফিজুর রহমান লিকু মহোদয়ের সঙ্গে  "বাংলাদেশ আন্তঃ বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স ফেডারেশনের নবগঠিত কমিটি" সৌজন্য সাক্ষাৎ করে। এই সময় জতির জনকের সুযোগ্য কন্যা গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা কে "বাংলাদেশ আন্তঃ বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স ফেডারেশনের" নবগঠিত কমিটি'র বিষয়টি অবহিত করার জন্য নেতৃবৃন্দ তাঁকে অনুরোধ জানান।  "বাংলাদেশ আন্তঃ বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স ফেডারেশনের" নবগঠিত কমিটি এবং অফিসারদের দাবি দাওয়ার বিষয়ে সুবিধাজনক সময়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে অবহিত করবেন বলে তিনি আশ্বাস দেন।


আরও খবর



বঙ্গবন্ধু সেতু এলাকায় ট্রাকের ধাক্কায় নিহত ৩

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৬ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৬ এপ্রিল ২০২১ | ৭২জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ঢাকা-বঙ্গবন্ধুসেতু মহাসড়কে দুই ট্রাকের সংঘর্ষে তিনজন নিহত হয়েছে। এঘটনায় আহত হয়েছে আরও দুইজন।

শুক্রবার (১৬ এপ্রিল)  বিকাল ৪টার দিকে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার চর  ভাবলা নামক স্থানে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে। তাৎক্ষণিক ভাবে নিহতদের পরিচয় জানা যায়নি।

বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্বপাড় থানার অফিসার ইনচার্জ মো. সফিকুল ইসলাম জানান, উত্তরবঙ্গগামী একটি টিন বোঝাই ট্রাক চর ভাবলা স্থানে দাড়িয়ে থাকা একটি ট্রাককে পিছন থেকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই ৩ জন নিহত হয়। নিতহদের উদ্ধার করে টাঙ্গাইল ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে মর্গে রাখা হয়েছে। এঘটনায় দুইজন আহতদের গুরুত্বর অবস্থায় জেনারেল হাসপাতালেই ভর্তি করা হয়েছে।


আরও খবর
সিঁধ কেটে ২মাসের বাচ্চা চুরি

বৃহস্পতিবার ০১ এপ্রিল ২০২১




স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বাসায় হেফাজত নেতাদের বৈঠক

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০21 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০21 | ২১জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের সঙ্গে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের শীর্ষ নেতারা বৈঠক করেছেন। সোমবার (১৯ এপিল) স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের ধানমন্ডির বাসায় এ বৈঠক হয়।

বাসভবনে প্রায় একঘণ্টা ধরে চলা বৈঠক শেষে নেতারা বেরিয়ে যান। তবে, এ সময় গণমাধ্যমকর্মীদের বৈঠকের বিষয়ে তারা কিছু বলেননি। এর আগে, রাত ১০ টার দিকে মন্ত্রীর বাসভবনে এ বৈঠক শুরু হয়।

বৈঠক শেষে হেফাজতের মহাসচিব নুরুল ইসলাম অসুস্থতার কথা বলে গণমাধ্যমকে এড়িয়ে যান

তবে, একটি সূত্র জানিয়েছে, বৈঠকে হেফাজতের শীর্ষ নেতাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের নায়েবে আমির মাওলানা আতাউল্লাহ হাফেজী, হেফাজত মহাসচিব নুরুল ইসলাম জিহাদী, মামুনুল হকের ভাই মাওলানা মাহফুজুল হক, অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান (দেওনার পীর), স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

বৈঠক শেষে হেফাজতের কেউ গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা না বললেও একটি সূত্র জানিয়েছে, সম্প্রতি হেফাজত ইসলামের তাণ্ডব ও মামুনুল হকসহ শীর্ষ নেতাদের গ্রেপ্তার নিয়ে মূলত এই বৈঠকে আলোচনা হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে কিভাবে সমঝোতায় আসা যায়, সে চেষ্টাই করছেন হেফাজত নেতারা।


আরও খবর



সারাদেশে আজ তাপমাত্রা বাড়তে পারে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৬ এপ্রিল ২০২১ | ৮২জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সারাদেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা সামান্য বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর। মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) সকাল ৯টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

পূর্বাভাসে আরও বলা হয়েছে, আগামী ৩ দিনে আবহাওয়ার সামান্য পরিবর্তন হতে পারে।

পশ্চিমা লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে।

সোমবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে পটুয়াখালীর খেপুপাড়ায় ৩৬ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঢাকায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ৩৩ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।


আরও খবর



যেসব অভিযোগে মামুনুল হকের বিরুদ্ধে মামলা

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৬ এপ্রিল ২০২১ | ১১১জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
আসামিরা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল ভাঙচুর করে ও কিশোরগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগ অফিসে বঙ্গবন্ধুর ছবি ভাঙচুর করে। এছাড়া বায়তুল মোকাররমের টাইলস ভেঙে, বিভিন্ন হাদিস

হেফাজতের যুগ্ম মহাসচিব ও ঢাকা মহানগর সেক্রেটারি মাওলানা মামুনুল হকসহ হেফাজতে ইসলামের ১৭ নেতার বিরুদ্ধে রমনা থানায় মামলা হয়েছে। সোমবার (৫ এপ্রিল) রাতে ওয়ারী এলাকার ব্যবসায়ী খন্দকার আরিফ-উজ-জামাল মামলাটি করেন। এতে আরও অজ্ঞাত পরিচয় ২-৩ হাজার ব্যক্তিকে আসামি করা হয়েছে। যাদের পরিচয়ে বলা হয়েছে, এরা হেফাজত, জামায়াত-শিবির ও বিএনপির কর্মী।

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, নামাজ শেষে মসজিদ থেকে বের হয়ে বাদী উগ্র মৌলবাদী ব্যক্তিদের উচ্ছৃঙ্খল জমায়েত দেখতে পান। তাদের স্লোগান ও কথোপকথন থেকে জানতে পারেন, মামুনুল হকের নেতৃত্বে শীর্ষস্থানীয় হেফাজত, জামায়াত-শিবির ও বিএনপি নেতারা ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন্ন স্থানে গোপন বৈঠক করে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী অনুষ্ঠান বানচালের ষড়যন্ত্র করেছে। সেইসঙ্গে সারা দেশে ব্যাপক তাণ্ডব চালিয়ে নৈরাজ্য সৃষ্টির পরিকল্পনাও রয়েছে। পরিকল্পনা বাস্তবায়নের জন্য তারা দা, ছোরা, কুড়াল, কিরিজ, হাতুড়ি, তলোয়ার, বাঁশ, লঠি, শাবল, পাইপগান ও রিভলবার নিয়ে বাদীসহ অন্য মুসল্লিদের ওপর হামলা চালায়।

এজাহারে আরও বলা হয়েছে, আসামিরা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল ভাঙচুর করে ও কিশোরগঞ্জে জেলা আওয়ামী লীগ অফিসে বঙ্গবন্ধুর ছবি ভাঙচুর করে। এছাড়া বায়তুল মোকাররমের টাইলস ভেঙে, বিভিন্ন হাদিস ও কুরআন শরিফসহ ধর্মীয় বইপত্র পুড়িয়ে ইসলামের অপূরণীয় ক্ষতি করেছে। তারা দেশকে অস্থিতিশীল, অকার্যকর ও মৌলবাদী রাষ্ট্রে পরিণত করার মাধ্যমে অবৈধ পথে সরকার উৎখাতের ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে।

মামলার অপর আসামিরা হলেন-যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা জুনায়েদ আল হাবিব, যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা লোকমান হাকিম, যুগ্ম মহাসচিব নাসির উদ্দিন মনির, নায়েবে আমির মাওলানা বাহাউদ্দিন জাকারিয়া, মাওলানা নুরুল ইসলাম জিহাদি, নায়েবে আমির ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা শাখার সভাপতি মাওলানা মাজেদুর রহমান, লালবাগের মাওলানা হাবিবুর রহমান, মাওলানা খালেদ সাইফুল্লাহ আইয়ুবী, মাওলানা জসিম উদ্দিন, মাওলানা মাসুদুল করিম, মুফতি মনির হোসাইন কাসেমী, মাওলানা জাকারিয়া নোমান ফয়েজী, মাওলানা ফয়সাল আহমেদ, মাওলানা মুশতাকুন্নবী, মাওলানা হাফেজ মো. জোবায়ের, মাওলানা হাফেজ মোহাম্মদ তৈয়ব।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরকে ঘিরে গত ২৬ মার্চ বায়তুল মোকাররমে বিক্ষোভ করে হেফাজত। সেখানে পুলিশ ও আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের সঙ্গে তাদের সংঘর্ষ হয়। এর জেরে দেশে বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ হয়। সরকারি হিসেব মতে এই বিক্ষোভে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে মারা যান ১৭ জন। তবে হেফাজতের দাবি ২২ জন।


আরও খবর



আজ বিশ্ব ভয়েস দিবস

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৬ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৬ এপ্রিল ২০২১ | ৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আজ বিশ্ব ভয়েস (কণ্ঠ) দিবস। প্রতি বছর ১৬ এপ্রিল বিশ্বজুড়ে পালিত হয় দিবসটি। দিবসটির এবারের প্রতিপাদ্য এক বিশ্ব, অনেক ভয়েস

কণ্ঠ ও কণ্ঠনালির সমস্যা এবং কণ্ঠকে সুস্থ রাখার উপায় সম্পর্কে জনসচেতনতা তৈরিই দিবসটির মূল উদ্দেশ্য।

ব্রাজিলিয়ান ভয়েস কেয়ার পেশাদারদের দ্বারা ১৯৯৯ সালে প্রথম শুরু হয়েছিল ভয়েস উদযাপন। পরে এটি ব্রাজিলিয়ান ভয়েস ডে হিসাবে প্রতিষ্ঠিত হয়। এটি আর্জেন্টিনা ও পর্তুগালের মতো দেশেও উদযাপিত হয়েছিল।

পরবর্তীকালে, ২০০২ সালে আমেরিকান একাডেমি অফ ওটোলারিঙ্গোলজিস্ট-হেড এবং নেক সার্জারি এটি উদযাপন শুরু করলে, আনুষ্ঠানিকভাবে এটি বিশ্ব ভয়েস দিবস হিসাবে স্বীকৃত হয়।

প্রাপ্ত এক তথ্যে জানা গেছে, দেশের ৫ কোটিরও বেশি মানুষ কণ্ঠের নানা সমস্যায় ভুগছেন। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হচ্ছেন স্বরভঙ্গে। এ ছাড়া দেশের ক্যান্সার আক্রান্তদের প্রায় ৩০ ভাগই নাক, কান ও গলার ক্যান্সারে আক্রান্ত। তাদের এক-তৃতীয়াংশ শুধু গলার ক্যান্সারে ভুগছেন।

নাক, কান ও গলা বিশেষজ্ঞ ডা. সতীনাথ সরকারের মতে, বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই গলা বসা বা কণ্ঠস্বর ভাঙার কারণ হলো শ্বাসনালিতে সংক্রমণ। এমনকি সাধারণ ঠান্ডা লাগা বা দীর্ঘক্ষণ জোরে কথা বললেও গলার স্বর ভাঙতে পারে। তবে দীর্ঘদিন এই সমস্যা হচ্ছে, কিছুতেই সারছে না, বিশেষ করে আপনি যদি ধূমপায়ী হয়ে থাকেন, তবে সতর্ক হোন। ফুসফুস বা শ্বাসতন্ত্রের ক্যানসারে ভোকাল কর্ড বা এর স্নায়ু আক্রান্ত হয়ে গলা বসে যেতে পারে। থাইরয়েড গ্রন্থির সমস্যায়ও অনেক সময় গলার স্বর বসে যায়। এ ছাড়া গলার কোনো অস্ত্রোপচারে ভোকাল কর্ড বা স্নায়ু ক্ষতিগ্রস্ত হলেও গলা বসে যেতে পারে।

প্রসঙ্গত, করোনা পরিস্থিতির ভয়াবহতার কারণে দিবসটি পালনে এবার কোনো সরব কর্মসূচী নেই।


আরও খবর