আজঃ মঙ্গলবার ১৬ জুলাই ২০২৪
শিরোনাম
সন্ত্রাস, দুর্নীতি দমন ও উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে

ফের শ ম রেজাউল করিমকে চায় ভোটাররা

প্রকাশিত:শনিবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:শনিবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
মশিউর রহমান রাহাত, পিরোজপুর

Image
আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পুনরায় শ ম রেজাউল করিম আওয়ামী লীগের প্রার্থী হওয়ায় এ আসনের শান্তিপ্রিয় জনগণ উল্লাস প্রকাশ করে এবং তার প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন।

পাঁচ বছর আগেও চাঁদাবাজি, সন্ত্রাস, দুর্নীতি, নিয়োগ বাণিজ্য, টেন্ডারবাজিসহ নানা অপরাধের অভয়ারণ্য ছিলো পিরোজপুর। মানুষের কাছে সন্ত্রাসের জনপদ হিসেবে পরিচিত ছিলো অঞ্চলটি। সেখানে বইছে এখন শান্তির সুবাতাস। ২০১৮ অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পিরোজপুর-১ আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পান আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির তৎকালীন আইন বিষয়ক সম্পাদক শ ম রেজাউল করিম। ওই নির্বাচনে তিনি বিপুল ভোটের ব্যবধানে সাঈদীপুত্র শামীম সাঈদীকে পরাজিত করে এমপি হন।

এমপি নির্বাচিত হয়ে প্রথমে গৃহায়ন ও গণপূর্তমন্ত্রী পরে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

বিগত পাঁচ বছরে তিনি নিজ নির্বাচনী এলাকার গ্রামীণ রাস্তা সংস্কার, সম্প্রসারণ ও মজবুতকরণ, ব্রিজ-কালভার্ট, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, মন্দির-মসজিদের অবকাঠামগত উন্নয়ন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় নির্মাণ, অসহায় মানুষকে সরকারি উদ্যোগে ঘর করে দেয়া, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির বিভিন্ন পর্যায়ে ভাতা প্রদান করা, শতভাগ বিদ্যুতায়িত করাসহ অসংখ্য উন্নয়নের পাশাপাশি চাঁদাবাজি, সন্ত্রাস, দুর্নীতি, নিয়োগ বাণিজ্য, টেন্ডার-সন্ত্রাস বন্ধ করে সন্ত্রাসের জনপদকে শান্তি ও উন্নয়নের জনপদে পরিণত করেছেন।

আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পুনরায় শ ম রেজাউল করিম আওয়ামী লীগের প্রার্থী হওয়ায় এ আসনের শান্তিপ্রিয় জনগণ উল্লাস প্রকাশ করে এবং তার প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন।

পিরোজপুর সদর-নাজিরপুর-ইন্দুরকানী এই তিন উপজেলা নিয়ে গঠিত পিরোজপুর-১ আসনটিতে এবার মনোনয়নপত্র দাখিল করেন নয় প্রার্থী। যাচাই-বাছাইয়ে চারজনের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে। বৈধ প্রার্থীরা হলেন- মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম (আওয়ামী লীগ), একেএমএ আউয়াল (স্বতন্ত্র), মো. নজরুল ইসলাম (জাতীয় পার্টি), মো. সাইদুল ইসলাম ডালিম (জাসদ) এবং মো. ফরহাদ আহম্মেদ (জাকের পার্টি)।

এখনো প্রতীক বরাদ্দ না হলেও ৭ জানুয়ারির  ভোটকে সামনে রেখে জমজমাট হয়ে উঠেছে পিরোজপুর। চলছে চায়ের আড্ডা, গ্রামে-গঞ্জে, শহর-বন্দরে নির্বাচনী অফিস নির্মাণ, ওয়ার্ড-পৌরসভা-ইউনিয়নভিত্তিক নির্বাচনী পরিচালনা কমিটি গঠন এবং প্রার্থীদের সঙ্গে চলছে মতবিনিময়।

দলীয় নেতা-কর্মীসহ একাধিক সাধারণ ভোটারদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, বর্তমান এমপি এলাকায় উন্নয়ন ও চাঁদাবাজি বন্ধ করায় তার প্রতি খুশি তারা। যিনি উন্নয়ন করতে পারবেন, সেই প্রার্থীকেই তারা ভোট দেবেন। এর আগে ১০ বছর যিনি এমপি ছিলেন, তিনি এমপি হয়েও তেমন কোনো কাজ করেননি ও সাধারণ মানুষেকে হামলা-মামলা ও জেল-জুলুম, অত্যাচার ও নির্যাতন করেছে, এবারের নির্বাচনে তিনি বিদ্রোহী প্রার্থী হলেও জনগণ তাকে ভোট দেবেন না।

আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেন, পিরোজপুর-১ আসনে বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনসহ অভাবনীয় উন্নয়ন হয়েছে। চাঁদাবাজি বন্ধ করা, ঘুষ-দুর্নীতিমুক্ত করা, নিয়োগ বাণিজ্য বন্ধ করা, উন্নয়ন প্রকল্প থেকে কমিশন নেয়া বন্ধ করা, সন্ত্রাস বন্ধ করা, মাদকের ছোবল থেকে রক্ষা করাসহ নানামুখী কর্মসূচির মাধ্যমে শান্তি ও উন্নয়নের জনপদে পরিণত করেছি পিরোজপুরকে। সঙ্গত কারণেই মানুষ চায় এই উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে শেখ হাসিনার মনোনীত প্রার্থীকে ভোট দিতে। স্বতন্ত্র প্রার্থী একেএমএ আউয়াল তার ভাই এবং তাদের অনুগত কিছু কর্মী, নৌকার কর্মী-সমর্থকদের জীবননাশের হুমকি দিয়ে নির্বাচনের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ নষ্ট করার অপচেষ্টা চালাচ্ছেন। তাদের সন্ত্রাসী বাহিনীর নৈরাজ্য সৃষ্টির প্রচেষ্টা জনগণ রুখে দেবে। তবে আইনের কঠোর প্রয়োগ আশা করি।

জেলা মৎস্যজীবী লীগের আহ্বায়ক সিকদার চাঁন বলেছেন, আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থীর পক্ষে আওয়ামী লীগ ও তার সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে যেতে পারছেন না। স্বতন্ত্র প্রার্থী একেএমএ আউয়ালের পক্ষে সেখানে নির্বাচন কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। জেলা আওয়ামী লীগের কমিটিতে দুঃসময়ের নেতাকর্মীদের কমিটিতে না রেখে এই স্বতন্ত্র প্রার্থী তার ব্যক্তিগত লোকজন দিয়ে কমিটি করেছেন।

নিউজ ট্যাগ: শ ম রেজাউল করিম

আরও খবর



আশুরা কবে জানা যাবে শনিবার

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০৫ জুলাই ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
ধর্ম ও জীবন

Image

১৪৪৬ হিজরি সনের মহররম মাসের চাঁদ দেখা এবং আশুরার তারিখ নির্ধারণে শনিবার (৬ জুলাই) সভায় বসছে জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটি।

শনিবার সন্ধ্যা সোয়া ৭টায় ইসলামিক ফাউন্ডেশন বায়তুল মোকাররম সভাকক্ষে এ সভা হবে। সভায় সভাপতিত্ব করবেন ধর্মবিষয়ক মন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান।

শুক্রবার (৫ জুলাই) ইসলামিক ফাউন্ডেশনের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বাংলাদেশের আকাশে কোথাও মহররম মাসের চাঁদ দেখা গেলে তা ০২-২২৩৩৮১৭২৫, ০২-৪১০৫০৯১২, ০২-৪১০৫০৯১৬, ০২-৪১০৫০৯১৭ টেলিফোন ও ০২-২২৩৩৮৩৩৯৭, ০২-৯৫৫৫৯৫১ ফ্যাক্স নম্বরে বা সংশ্লিষ্ট জেলার জেলা প্রশাসক (ডিসি) বা উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে (ইউএনও) জানানোর অনুরোধ জানিয়েছে ইসলামিক ফাউন্ডেশন।


আরও খবর
দেশে ফিরলেন ৫৯ হাজার ৩৩০ হাজি

মঙ্গলবার ০৯ জুলাই ২০২৪




চাঁদাবাজি করতে গিয়ে ভুয়া এসিল্যান্ড পলাতক, আটক কথিত সাংবাদিক

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৯ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৯ জুলাই ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
রফিকুল ইসলাম, কুষ্টিয়া

Image

কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে এসিল্যান্ড পরিচয়ে ফার্মেসীতে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা চাইতে গিয়ে জনগণের হাতে আটক হয়েছেন সাংবাদিক পরিচয়দানকারী ব্যক্তি।

মঙ্গলবার (৯ জুলাই) দুপুরের দিকে উপজেলার নন্দলালপুর ইউনিয়নের চড়াইকোল বাজারে এই ঘটনা ঘটে। এ বিষয়ে কুমারখালী থানায় এজাহার জমা দিয়েছেন ভুক্তভোগী।

আটক হয়েছেন পৌরসভার কাজীপাড়া এলাকার সাহেব আলীর ছেলে একাত্তরের বাংলাদেশ পত্রিকার সাংবাদিক পরিচয়দানকারী রাকিব(২২)।

ভুক্তভোগী ফার্মেসী মালিক মিজানুর রহমান জানান, মঙ্গলবার বেলা দেড় টার দিকে সাংবাদিক পরিচয়দানকারী রাকিব ও পলাশ তাদের সাথে থাকা অজ্ঞাত ব্যক্তিকে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) পরিচয় দিয়ে ফার্মেসির কাগজপত্র দেখাতে বলে এবং তারা ম্যাজিস্ট্রেটকে ম্যানেজ করতে ৫০ হাজার টাকা দাবি করেন। তাদের কথাবার্তা সন্দেহজনক হওয়ায় ফার্মেসী মালিক নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এর পরিচয় দাবি করেন এবং স্থানীয়দের বিষয়টি জানান।

এসময় স্থানীয়রা তাদের ধাওয়া করলে সাংবাদিক পরিচয়দানকারী পলাশ ও ভূয়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পালিয়ে যেতে সক্ষম হলেও রাকিব আটক হয়। পরবর্তীতে কুমারখালী থানা পুলিশ রাকিবকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন। এ বিষয়ে কুমারখালী থানায় রাকিব, পলাশ ও ভূয়া নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট অজ্ঞাত ব্যক্তির বিরুদ্ধে এজাহার হয়েছে বলে জানা যায়।

এ বিষয়ে কুমারখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) সুকল্যাণ জানান, চাঁদাবাজি করতে গিয়ে জানগনের হাতে আটক খবর পেয়ে রাকিব নামে একজনকে উদ্ধার করে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। তবে এখনও লিখিত কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি৷ অভিযোগ পেলে তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নিউজ ট্যাগ: অবৈধ ফার্মেসি

আরও খবর



জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

প্রকাশিত:রবিবার ২৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ২৩ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

আওয়ামী লীগের গৌরবোজ্জ্বল প্লাটিনাম জয়ন্তী, অর্থাৎ ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন দলটির সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রবিবার (২৩ জুন) সকাল ৭টায় ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হয়।

প্রথমে প্রধানমন্ত্রী ও পরে আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে দলের শীর্ষ নেতাদের নিয়ে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানান শেখ হাসিনা।

প্লাটিনাম জয়ন্তীতে সূর্যোদয়ের সময় আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয় ও দেশব্যাপী দলীয় কার্যালয়ে জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়।

এ দিন সকাল সাড়ে ১০টায় গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের পক্ষ থেকে প্রতিনিধিদল শ্রদ্ধার্ঘ্য নিবেদন করবে।

এছাড়া বিকেল ৩টায় ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হবে। এ সভায় শেখ হাসিনা সভাপতিত্ব করবেন। আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা, আমন্ত্রিত অতিথিসহ দলের সর্বস্তরের নেতা-কর্মীরা অংশ নেবেন।


আরও খবর



বেনজীর-মতিউরের নামে মামলা এ সপ্তাহেই

প্রকাশিত:রবিবার ৩০ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ৩০ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

সাবেক পুলিশপ্রধান বেনজীর আহমেদ ও সদ্য সরিয়ে দেওয়া জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) কর্মকর্তা মতিউর রহমানকে আইনের আওতায় আনার ক্ষেত্রে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) আর সময় নেবে না। এরই মধ্যে দুজনের নামে বিপুল সম্পদের তথ্যপ্রমাণ পেয়েছে সংস্থাটি। এর ভিত্তিতে এ সপ্তাহের মধ্যেই তাদের বিরুদ্ধে মামলা হবে। তাদের পরিবারের অভিযুক্ত সদস্যদেরও মামলায় আসামি করা হবে। দুদকের একটি নির্ভরযোগ্য সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

দুদক সূত্র জানায়, এরই মধ্যে তিন দফায় বেনজীর আহমেদ ও তাঁর পরিবারের সদস্যের বিপুল স্থাবর-অস্থাবর সম্পদ জব্দ ও অবরুদ্ধ করা হয়েছে। ওই সব সম্পদ তাঁর বৈধ আয়ের সঙ্গে অসংগতিপূর্ণ। এজন্য তাদের অর্থসম্পদকে অপরাধলব্ধ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।

একইভাবে এনবিআর কর্মকর্তা মতিউর রহমান ও তাঁর পরিবারের সদস্যের স্থাবর-অস্থাবর সম্পদের তথ্য রয়েছে দুদকের হাতে; যা তাঁর বৈধ আয়ের চেয়ে অস্বাভাবিক। দুদকের অনুসন্ধানে দেখা গেছে, চাকরিজীবনে তিনি বৈধ অর্থ উপার্জন করেছেন গাণিতিক হারে, আর অবৈধ সম্পদ কামিয়েছেন জ্যামিতিক হারে।

বেনজীর ও মতিউর ক্ষমতার অপব্যবহার, অনিয়ম, দুর্নীতির মাধ্যমে জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করে এবং সেগুলো ভোগদখলে রেখে দুদক আইনে শান্তিযোগ্য অপরাধ করেছেন। তারা অবৈধ কার্যক্রমের মাধ্যমে উপার্জিত অপরাধলব্ধ অর্থ হস্তান্তর, রূপান্তর ও স্থানান্তরের মাধ্যমে অবস্থান গোপন করে মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইনেও শাস্তিযোগ্য অপরাধ করেছেন। ওই সব ধারায় তাদের বিরুদ্ধে আলাদা আলাদা মামলা হবে।

গেল ২৩ ও ২৬ মে আদালতের আদেশে বেনজীর, তাঁর স্ত্রী ও দুই মেয়ের নামে থাকা বিপুল সম্পদ, ব্যাংক হিসাব, শেয়ারসহ অন্য সম্পদ জব্দ ও অবরুদ্ধ করা হয়। তাদের নামে থাকা ৮৩টি দলিলে ৬২১ বিঘা জমি, গুলশানের চারটি ফ্ল্যাট জব্দ, ৩৮টি ব্যাংক হিসাব ও তাদের মালিকানার কোম্পানিও অবরুদ্ধ করা হয়েছে। ওই দুই দিনে বেনজীর ও তাঁর পরিবারের সদস্যের নামে থাকা ৩৩ কোটি টাকার বেশি সম্পদ জব্দ ও অবরুদ্ধ করা হয়েছে।

ঢাকা, সাভার, রূপগঞ্জ, গোপালগঞ্জ, কক্সবাজারসহ দেশের বিভিন্ন স্থানের ওই সব সম্পত্তি বেনজীর, তাঁর স্ত্রী জীশান মীর্জা, দুই মেয়ে ফারহিন রিশতা বিনতে বেনজীর ও তাশিন রাইসা বিনতে বেনজীরের নামে রয়েছে।

বেনজীর ও তাঁর পরিবারের সদস্যের বিরুদ্ধে গত ২২ এপ্রিল জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগের অনুসন্ধান শুরু করে দুদক। গত ৩ মে পর্যন্ত তিনি ও তাঁর পরিবারের সদস্যরা দেশেই ছিলেন। সপরিবারে বেনজীর সিঙ্গাপুর চলে যান গত ৪ মে। এ সময়ের মধ্যে দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হলে তারা বিদেশে পাড়ি জমাতে পারতেন না।

এদিকে এনবিআর কর্মকর্তা মতিউর রহমানের বিরুদ্ধে পাওয়া অভিযোগে নামে-বেনামে বিপুল সম্পদের তথ্যপ্রমাণ পাওয়া গেছে। চাকরিকালীন ক্ষমতার অপব্যবহার করে অনিয়ম, দুর্নীতির মাধ্যমে বাড়ি, গাড়ি, ফ্ল্যাট, প্লট, জমি, ব্যবসা, শেয়ার, ব্যাংকে জমানো টাকা, ব্যাংকে মেয়াদি আমানতসহ অন্য স্থাবর-অস্থাবর সম্পদের মালিক হয়েছেন। অপরাধলব্ধ অর্থ রেখেছেন দুই স্ত্রী ও ছেলেমেয়ের নামেও। ঢাকা, গাজীপুর, সাভার, নরসিংদী, বরিশালসহ বিভিন্ন জায়গায় বাড়ি, জমি, রিসোর্ট, ফ্ল্যাট, প্লটসহ নানা সম্পদ রয়েছে নামে-বেনামে। অন্য স্থাবর সম্পদও রয়েছে। তাঁর প্রথম স্ত্রী নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলা চেয়ারম্যান লায়লা কনিজ, তাঁর মেয়ে ফারজানা রহমান ইস্পিতা ও ছেলে তৌফিকুর রহমান অর্ণব, দ্বিতীয় স্ত্রী শাম্মী আখতার শিবলী ও তাঁর ছেলে মুশফিকুর রহমান সিফাতের নামে রাখা হয়েছে নানা সম্পদ।

সম্প্রতি মতিউর রহমানের ছেলে ইফাতের ১২ লাখ টাকায় কোরবানির ছাগল কেনার ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে বেরিয়ে আসে আড়ালে থাকা এ সরকারি কর্মকর্তার সম্পদের পাহাড়।


আরও খবর
কে এই আবেদ আলী

সোমবার ০৮ জুলাই ২০২৪




গাজায় ইসরাইলি হামলায় আরও ৪০ ফিলিস্তিনি নিহত

প্রকাশিত:রবিবার ৩০ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ৩০ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় ইসরাইলি দখলদার বাহিনীর হামলা অব্যাহত রয়েছে। শনিবার (২৯ জুন) গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, আগের ২৪ ঘণ্টায় ইসরাইলি বাহিনীর হামলায় আরও ৪০ জন ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। এ নিয়ে গত প্রায় ৯ মাসের যুদ্ধে নিহত হয়েছেন ৩৭ হাজার ৮৩৪ জন।

রবিবার (৩০ জুন) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে তুরস্কের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা আনাদোলু।

এক বিবৃতিতে গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় ইসরাইলের হামলায় ৪০ জন নিহত ও দুই শতাধিক মানুষ আহত হয়েছেন। অনেক মানুষ এখনও ধ্বংসস্তূপের নিচে এবং রাস্তায় আটকা পড়ে আছেন কারণ উদ্ধারকারীরা তাদের কাছে পৌঁছাতে পারছেন না। এ ছাড়া ইসরাইলি হামলায় আহত হয়েছেন আরও ৮৬ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনি।

এদিকে গাজা যুদ্ধে নিরীহ ফিলিস্তিনিদের ওপর হামলা চালাতে ৯ মাসে ইসরাইলকে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র সহায়তা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। এসব মারণাস্ত্রের মধ্যে রয়েছে দুই হাজার পাউন্ডের বোমা, হেলফায়ার মিসাইল ও ক্ষেপণাস্ত্র। দুই মার্কিন কর্মকর্তার বরাতে এ খবর প্রকাশ করেছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মার্কিন কর্মকর্তারা জানান, গত বছরের ৭ অক্টোবর থেকে এ পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্র দুই হাজার পাউন্ডের ১৪ হাজার এমকে-৮৪ বোমা, ৫০০-পাউন্ডের সাড়ে ছয় হাজার বোমা, এয়ার-টু-গ্রাউন্ড ক্ষেপণাস্ত্র ৩ হাজার ও ১ হাজার বাঙ্কার বিধ্বংসী বোমা ইসরাইলে পাঠিয়েছে।

এসব বোমা ছাড়াও দেয়া হয়েছে হাজার হাজার হেলফায়ার ক্ষেপণাস্ত্র, যেগুলোর মাধ্যমে নির্ভুলভাবে লক্ষ্যবস্তুতে হামলা চালানো যায়। গত বছরের ৭ অক্টোবর পর থেকে ইসরাইলকে দেয়া অস্ত্রের চালানের তালিকা থেকে এমন তথ্য দিয়েছেন দুই মার্কিন কর্মকর্তা।


আরও খবর