আজঃ মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০21
শিরোনাম

গাইবান্ধায় কালবৈশাখী ঝড়ে মৃত্যু বেড়ে ১০

প্রকাশিত:সোমবার ০৫ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৫ এপ্রিল ২০২১ | ১০৬জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গাইবান্ধা সদর, পলাশবাড়ী, সুন্দরগঞ্জ ও ফুলছড়ি উপজেলায় কালবৈশাখী ঝড়ে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১০ জনে দাঁড়িয়েছে। নিহতের মধ্যে গাইবান্ধা সদরে চারজন, ফুলছড়িতে দুইজন, পলাশবাড়ীতে  তিনজন এবং সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় একজন।

সোমবার (৫ এপ্রিল) সকালে গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক (ডিসি) আব্দুল মতিন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, ফুলছড়িতে নিহত দুইজেনের মধ্যে একজন ঝড়ের সময় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। তাই সরকারিভাবে ঝড়ে নিহতের সংখ্যা ৯ জন হিসাব করা হয়েছে।

তারা হলেন- গাইবান্ধা সদর উপজেলার মালিবাড়ী ইউনিয়নের ঢনঢনিপাড়া গ্রামের মিঠু মিয়ার স্ত্রী সাহারা বেগম (৪১), হরিণসিংগা গ্রামের হিরু মিয়ার ছেলে মুনির (৫), আরিফ খান বাসুদেবপুর গ্রামের রিজু মিয়ার স্ত্রী আর্জিনা বেগম (২৮), রিফাইতপুর গ্রামের খগেন্দ্র চন্দ্রের স্ত্রী জোৎস্না রানী (৫৫), পলাশবাড়ী উপজেলার ডাকেরপাড়া গ্রামের ইউনুস আলীর স্ত্রী জাহানারা বেগম (৫০), মোস্তফাপুর গ্রামের আব্বাস আলীর ছেলে গোফ্ফার (৪২), মনোহরপুর ইউনিয়নের কুমেদপুর গ্রামের মমতা বেগম (৫৫), সুন্দরগঞ্জ উপজেলার কিশামত হলদিয়া গ্রামের সোলেমান আলীর স্ত্রী ময়না বেগম (৪০), ফুলছড়ি উপজেলার কাতলামারী গ্রামের বিটুল মিয়ার স্ত্রী শিমুলী বেগম (২৫), ফুলছড়ি উপজেলার রেন্ডাবাড়ী ইউনিয়নের ডাকাতিয়ার চর গ্রামের বারেক মিয়ার ছেলে হাফিজ উদ্দিন (৬০)। তাদের মধ্যে হাফিজ উদ্দিন ঝড়ের সময় বাতাসে ইজিবাইজ উল্টে নিহত হন।

এর আগে রবিবার (৪ এপ্রিল) বিকেল ৩টার দিকে গাইবান্ধা সদরসহ সাত উপজেলার উপর দিয়ে বয়ে যায় ঘণ্টাব্যাপী কালবৈশাখী ঝড়। এতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে কয়েক হাজার ঘরবাড়ি, বিদ্যুতের খুঁটি, দোকানপাটসহ সরকারি স্থাপনা। নষ্ট হয়েছে আমের মুকুল ও আমন ধানের গাছসহ বিভিন্ন ফসল। সোমবার সকাল পর্যন্ত জেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ স্বাভাবিক হয়নি।

জেলা প্রশাসক আব্দুল মতিন জানান, প্রত্যেক মৃত ব্যক্তির পরিবারকে ১০ হাজার টাকা করে আর্থিক সহযোগিতা করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন স্থানে ভেঙে পড়া গাছ অপসারণসহ বিদ্যুৎ সরবরাহ স্বাভাবিক করতে কাজ চলছে।


আরও খবর



হেফাজতকে আর ছাড় নয়: শেখ সেলিম

প্রকাশিত:শনিবার ০৩ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ০৩ এপ্রিল ২০২১ | ১২১জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
হেফাজত ও বিএনপি-জামায়াতের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আরও কঠোর হওয়ার অনুরোধ জানাচ্ছি। জন্মশতবার্ষিকী আর সুবর্ণজয়ন্তীর জন্য অনেক কিছু আমরা সহ্য করেছি। আর কোনো কিছু সহ্য করা হবে না

হেফাজতে ইসলাম, নামেই হেফাজতে ইসলাম। প্রকৃতপক্ষে তারা ইসলামবিরোধী, জঙ্গি ও স্বাধীনতাবিরোধী। তারা রাষ্ট্রের শত্রু। তাদের আর কোনো ছাড় দেওয়া যাবে না। তাদের বিরুদ্ধে কঠোর হতে হবে। দরকার হলে ট্রাইব্যুনাল করে অবিলম্বে তাদের বিচার করতে হবে। আজ শনিবার (৩ এপ্রিল) জাতীয় সংসদে পয়েন্ট অব অর্ডারে দেওয়া বক্তব্যে এসব কথা বলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম।

তিনি আরও বলেন, হেফাজত ও বিএনপি-জামায়াতের বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আরও কঠোর হওয়ার অনুরোধ জানাচ্ছি। জন্মশতবার্ষিকী আর সুবর্ণজয়ন্তীর জন্য অনেক কিছু আমরা সহ্য করেছি। আর কোনো কিছু সহ্য করা হবে না। এদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে হবে। প্রধানমন্ত্রী আপনাকে আরও কঠোর হতে হবে। আপনার পেছনে ১৪ কোটি মানুষ আছে। এই অপশক্তিকে ছাড় দেওয়া যাবে না। ইসলাম শান্তির ধর্ম, মানবতার ধর্ম। ইসলাম ধ্বংস করে না। ইসলাম সৃষ্টি করে। ইসলামকে হেফাজত কোনো সন্ত্রাসী জঙ্গি করতে পারে না। ইসলামকে হেফাজত করবে আল্লাহ।

যারা বাংলাদেশকে স্বীকার করে না তাদের বাংলাদেশে থাকার অধিকার নেই উল্লেখ করে তিনি বলেন, যারা বিশ্ববাসীর কাছে দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন করেছে, দেশের অর্জন ও স্বাধীনতার গৌরবকে নস্যাৎ করার চেষ্টা করছে। তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। দরকার হলে ট্রাইব্যুনাল করে অবিলম্বে তাদের বিচার করতে হবে।

শেখ সেলিম বলেন, একাত্তরের স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি, যারা বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে মেনে নিতে পারেনি। সেই শক্তি আমাদের সুন্দর অনুষ্ঠানটিকে কলঙ্কিত করার জন্য চট্টগ্রাম ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সহিংস ঘটনা ঘটিয়েছে উল্লেখ করে শেখ সেলিম বলেন, বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও ২৬ মার্চ স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে বিএনপি-জামায়াত ও স্বাধীনতাবিরোধী হেফাজতে ইসলাম হাটহাজারীতে তাণ্ডব চালায়। তারা থানায় আক্রমণ করে পুলিশের ওপর হামলা করে, পুলিশের অস্ত্র ছিনিয়ে নেয়। তারা ১০ জন পুলিশকে বোমা মেরে আহত করে। পুলিশের গাড়িতে অগ্নিসংযোগ করে। বিভিন্ন স্থাপনায় আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেয়। ভূমি অফিস ও বিভিন্ন স্থাপনা জ্বালিয়ে পুড়িয়ে দেয়। বাংলাদেশের স্বাধীনতার প্রতি যাদের বিন্দুমাত্র বিশ্বাস রয়েছে তারা কোনোদিন এই জঘন্য কাজ করতে পারে না।

২০১৩ সালে হেফাজতে ইসলামের আন্দোলনের প্রসঙ্গ টেনে শেখ সেলিম বলেন, ২০১৩ সালের ৫ মে বাংলাদেশ ব্যাংকের সামনে থেকে বিভিন্ন স্থানে বিনাকারণে কী তাণ্ডব করেছিল তারা। সেদিন খালেদা জিয়া বিএনপিকে হেফাজতের পাশে থাকার নির্দেশ দিয়েছিলেন। তারা বায়তুল মোকাররমে মসজিদে আক্রমণ করে।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বিভিন্ন মুসলিম দেশ সফর প্রসঙ্গে সরকার দলের সিনিয়র এই এমপি বলেন, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বিভিন্ন মুসলিম দেশে সফর করেছেন। সেই সব দেশের সরকার ও জনগণ তাকে আন্তরিকভাবে গ্রহণ করেছে। সেখানে কেউ টু শব্দ করেনি। আর বাংলাদেশে মোদি এলে মুসলমানদের সর্বনাশ হয়ে যাবে। তার আসা নিয়ে এই ধরনের জঘন্য রাজনীতি যারা করেছে তারা পাকিস্তানের নিয়াজী, রাও ফরমান আলী ও তালেবানের অনুসারী।

তিনি আরও বলেন, সরকার বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে ১০দিনের যে অনুষ্ঠান করেছে তাতে ২৭টি দেশের প্রধান ও ১২টি আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রধান ভিডিও বার্তা পাঠিয়ে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। এই অনুষ্ঠান ও ভিতিও বার্তা বিশ্বে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করেছে।


আরও খবর



আজকের রাশিফল: জেনে নিন কেমন কাটবে দিন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ৩০ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ৩০ মার্চ ২০২১ | ১০০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পুরনো জ্যোতিষশাস্ত্রের এমন একটি ধরন, যার মাধ্যমে বিভিন্ন সময়কাল নিয়ে ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়। যেমন দৈনিক রাশিফল প্রতিদিনের ঘটনার ভবিষ্যকথন করে, তেমন সাপ্তাহিক, মাসিক তথা বার্ষিক রাশিফল যথাক্রমে সপ্তাহ, মাস এবং বছরের ভবিষ্যদ্বাণী করে। বৈদিক জ্যোতিষে ১২টি রাশি- মেষ, বৃষ, মিথুন, কর্কট, সিংহ, কন্যা, তুলা, বৃশ্চিক, ধনু, মকর, কুম্ভ ও মীন-এর ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়। একই রকমভাবে ২৩টি নক্ষত্রেরও ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়ে থাকে।

মেষ রাশি:

জনসংযোগ ও প্রচারমূলক কাজে অগ্রগতি। কোনো ইতিবাচক সংবাদে উত্ফুল্ল হবেন। অন্যের ওপর আবেগপ্রসূতভাবে নির্ভর করবেন না। জীবন সম্পর্কে আশাবাদী দৃষ্টিভঙ্গি অব্যাহত রাখুন।

বৃষ রাশি:

বেকারদের কাজের যোগাযোগ আসতে পারে। ভুল তথ্যের কারণে বিভ্রান্ত হতে পারেন। সিদ্ধান্তে স্থির থাকতে পারবেন না। সঠিক প্রচেষ্টায় পরিবর্তন সম্ভব। মনকে প্রফুল্ল রাখুন।

মিথুন রাশি:

আকস্মিক প্রাপ্তির সম্ভাবনা আছে। কর্মসূত্রে উন্নতির যোগ। প্রেমের বাধা মিটবে। প্রতিকূল পরিস্থিতি হঠাত্ পরিবর্তনের ইঙ্গিত রয়েছে। আর্থিক ব্যাপারে সচেতন থাকুন।

কর্কট রাশি:

জমি ও আবাসনসংক্রান্ত আলোচনায় অগ্রগতি। আর্থিক অবস্থা গতানুগতিক। কোনো কিছু নিয়ে সিদ্ধান্তহীনতায় ভুগতে পারেন। দাম্পত্য জীবন শুভ। সময়ের সঠিক ব্যবহার করুন।

সিংহ রাশি:

কর্মক্ষেত্রে যোগাযোগ বৃদ্ধি ও অর্থোন্নতির ক্ষেত্রে অনুকূল দিন। অযাচিত কিছু অর্থ হাতে আসতে পারে। আত্মীয়ের ব্যাপারে দুশ্চিন্তা বাড়বে। স্বাস্থ্য রক্ষায় মনোযোগ দিন। ভ্রমণ শুভ।

কন্যা রাশি:

কর্মক্ষেত্রে দায়িত্ব বাড়বে। আর্থিক অবস্থার উন্নতি। ভবিষ্যত্ পরিকল্পনায় অন্যের সহযোগিতা পাবেন। ব্যবসায় জটিলতা কাটবে। নতুন অভিজ্ঞতা দূর ভবিষ্যতে পুরস্কৃত করবে।

তুলা রাশি:

বিশেষ প্রচেষ্টায় সাফল্যের যোগ। নিজের ওপর আস্থা বাড়বে। আয় কমবেশি বাড়বে। কাজে বাধা থাকলেও দীর্ঘস্থায়ী হবে না। নতুন পরিকল্পনার অগ্রগতি হবে।

বৃশ্চিক রাশি:

কাজের চাপ থাকবে। কোনো কিছু নিয়ে অনিশ্চয়তায় থাকতে পারেন। ব্যয় বাড়বে। কর্মপরিবেশ মাঝেমধ্যে প্রতিকূল হতে পারে। সময়ের সঠিক ব্যবহার করুন। সুস্থ থাকুন।

ধনু রাশি:

কোনো আশা পূরণ হতে পারে। আয়ের নতুন কোনো উত্স খুঁজে পাবেন। বন্ধুর সহযোগিতার আশ্বাস পাবেন। পুরনো সমস্যা কিছুটা মিটবে। শরীরের যত্ন নেবেন। ভালো থাকবেন।

মকর রাশি:

কোনো লাভজনক কাজের সুযোগ আসতে পারে। কর্মক্ষেত্রে সম্মান বৃদ্ধি। প্রেমে হতাশা, নতুন ধ্যান-ধারণা জন্ম নেবে। পাওনা আদায়ে অগ্রগতি। সুযোগের সদ্ব্যবহার করুন।

কুম্ভ রাশি:

কোনো প্রচেষ্টার ফল পেতে পারেন। নতুন কিছু করার সুযোগ আসবে। কর্মক্ষেত্রে দায়িত্ব বৃদ্ধি। ব্যবসায়ীদের বাড়তি আয়ের সম্ভাবনা। গঠনমূলক চিন্তা করুন, ভালো থাকুন।

মীন রাশি:

সামাজিক যোগাযোগ বাড়বে। কোনো সুযোগ হাতছাড়া হতে পারে। প্রত্যাশিত অর্থাগমে বাধা। স্বার্থের পরিপন্থীতে কারো অনুরোধ রক্ষা। মতবিরোধ আছে এমন মানুষ এড়িয়ে চলুন।


আরও খবর
যেভাবে বানাবেন শসার স্মুদি

সোমবার ১৯ এপ্রিল ২০২১




বাংলাদেশের লাল-সবুজে আলোকিত অস্ট্রেলিয়ার দুই ব্রিজ

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৪ মার্চ ২০২১ | ৯৮জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দিনের আলো যখন হারিয়ে যাচ্ছিল ঠিক তখনই মিটমিট করে জ্বলে ওঠে ৩০ লাখ শহীদের রক্তের বিনিময়ে পাওয়া লাল-সবুজ পতাকা। তবে বাংলাদেশে নয়, লাল-সবুজে আলোকিত হলো অস্ট্রেলিয়ার দুটি ঐতিহাসিক স্থাপনা স্টোরি ব্রিজ ও ভিক্টোরিয়া ব্রিজ। কুইন্সল্যান্ডে শহর ব্রিসবেনের এ দুটি উল্লেখযোগ্য স্থাপনা শহরের একেবারে প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত। অস্ট্রেলিয়ার কোনো বিশেষ স্থাপনা বাংলাদেশের পতাকার রঙে আলোকিত করার ঘটনা এটাই প্রথম।

আর এ আয়োজনটি সম্ভব হয়েছে ড. জিশু দাস গুপ্ত ও বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন ইন ব্রিসবেন ইনকের (ব্যাব) উদ্যোগে এবং অস্ট্রেলিয়ান লোকাল গভর্নমেন্টের সহযোগিতায়।

স্থানীয় সময় সোমবার সন্ধ্যা ৭টায় পূর্ণভাবে আলো জ্বলে ওঠে এই দুই ব্রিজে। তখন ব্রিসবেন নদীর পানিতে উজ্জ্বলভাবে প্রতিফলিত হয় বাংলাদেশের পতাকার রঙ।

এদিন ব্রিসবেনে বসবাসকারী বাংলাদেশিরা মিলিত হন স্টোরি ব্রিজের নিচে। সারাদিন চলতে থাকা বৃষ্টি উপেক্ষা করে সবাই একসঙ্গে গলা মিলিয়ে গেয়ে ওঠেন- আমার সোনার বাংলা, আমি তোমায় ভালবাসি এ যেন অন্য এক অনুভূতি। বিদেশের মাটিতে নিজের দেশের পতাকা দেখতে পারার আনন্দ উপচে পড়ে সবার চোখেমুখে।

ব্যাবের প্রেসিডেন্ট মুনির রহমান বলেন, একজন গর্বিত বাংলাদেশি হিসেবে এই অনুভূতি ভাষায় প্রকাশ করা যাবে না। আমাদের অনেক দিনের প্রচেষ্টার ফলে এ আয়োজন করা সম্ভব হয়েছে। এটি আমাদের সূচনা মাত্র। আমরা আগামী দিনে ব্রিসবেন তথা গোটা অস্ট্রেলিয়ায় বাংলাদেশকে তুলে ধরব আরও উঁচু থেকে উঁচুতে, যা হবে আমাদের পরবর্তী প্রজন্মের জন্য দেশের প্রতি দায়িত্ব এবং ভালোবাসার দৃষ্টান্ত।

২০১৮ সাল থেকে এ আয়োজনের চেষ্টা করা হলেও এবারই সম্ভব হলো।

এ আয়োজনের স্বপ্নদ্রষ্টা ড. জিশু দাস গুপ্ত বলেন, ২০১৮ সাল থেকে আমার ও কমিউনিটির সব সদস্যের প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ চেষ্টার ফলেই আমাদের এ অর্জন। আমরা চাই এ অর্জন ছড়িয়ে পড়ুক পৃথিবীর আনাচে-কানাচে। জ্বলে উঠুক বাংলাদেশের নাম।

নিউজ ট্যাগ: অস্ট্রেলিয়া

আরও খবর



লকডাউন ঘোষণার পরই বাজারে উপচেপড়া ভিড়

প্রকাশিত:শনিবার ০৩ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ০৩ এপ্রিল ২০২১ | ৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সোমবার থেকে দেশব্যাপী লকডাউন হতে পারে এ খবর শোনার পরই নিত্যপণ্যের দোকানে ভিড় করছেন মানুষ। শনিবার (৩ এপ্রিল) রাজধানীর কারওয়ান বাজার এলাকায় এমন চিত্র দেখা গেছে।

নিত্যপণ্য কিনতে আসা মানুষজন বলছেন, লকডাউনের সময়সীমা বৃদ্ধি পেলে চাল-ডাল ও তেলসহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম বৃদ্ধি পেতে পারে। এ কারণে প্রয়োজনীয় নিত্যপণ্য একটু বেশি করে কিনে রাখছেন তারা। আবার কেউ বলছেন, সামনেই রমজান এই উপলক্ষে প্রয়োজনীয় জিনিস কিনে রাখছি।

বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে- এখনো লকডাউন ঘোষণার খুব বেশি প্রভাব পড়েনি। নিত্যপণ্যের দাম অন্যান্যদিনের মতোই স্বাভাবিক রয়েছে। তবে সাধারণ মানুষ দাবি জানিয়েছেন যে, লকডাউনের সময় যেন প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম বৃদ্ধি না পায়।

প্রসঙ্গত, সারাদেশে সোমবার (৫ এপ্রিল) থেকে এক সপ্তাহের জন্য দেশব্যাপী লকডাউন আসতে পারে বলে জানান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। অন্যদিকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, দ্রুত ছড়াতে থাকা করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে সরকার দুই-তিন দিনের মধ্যে এক সপ্তাহের জন্য লকডাউনের চিন্তা করছে।


আরও খবর



স্বরূপকাঠিতে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০১ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০১ এপ্রিল ২০২১ | ৭১১জন দেখেছেন
হযরত আলী হিরু, স্বরূপকাঠি

Image

পিরোজপুরের স্বরূপকাঠিতে ৬ষ্ঠ শ্রেণি পড়ুয়া এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে শাকিল (২০) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার রাতে পুলিশ উপজেলার সংগীতকাঠি এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়। ধর্ষণের শিকার ঐ ছাত্রীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য বৃহস্পতিবার পিরোজপুর সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। বুধবার সন্ধ্যার আগে উপজেলার আটঘর-কুড়িয়ানা ইউনিয়নের মাহমুদকাঠি গ্রামে এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে।

নেছারাবাদ থানার ওসি আবির মোহাম্মদ হোসেন জানান এ ঘটনায় বুধবার রাতে মেয়েটির বাবা বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ অভিযুক্ত শাকিলকে গেফতার করে বৃহস্পতিবার সকালে পিরোজপুর আদালতে এবং মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষা করানোর জন্য পিরোজপুর সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে বলে ওসি জানান।


আরও খবর