আজঃ বুধবার ০৪ আগস্ট ২০২১
শিরোনাম

খুলনায় চার হাসপাতালে করোনায় আরও ১০ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২২ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২২ জুলাই ২০২১ | ১০৭জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

খুলনার চার হাসপাতালে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার (২১ জুলাই) সকাল ৮টা থেকে বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) সকাল ৮টা পর্যন্ত চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাদের মৃত্যু হয়।

খুলনা ডেডিকেডেট করোনা হাসপাতালে তিনজন, শহীদ শেখ আবু নাসের হাসপাতালের করোনা ইউনিটে একজন, বেসরকারি সিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দুইজন এবং গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে চারজনের মৃত্যু হয়েছে।

খুলনা ডেডিকেটেড করোনা হাসপাতালের ফোকাল পারসন ডা. সুহাস রঞ্জন হালদার সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছে, হাসপাতালে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। হাসপাতালটিতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ১১৬ জন। আর সুস্থ হয়েছেন ৮ জন।

শহীদ শেখ আবু নাসের হাসপাতালের করোনা ইউনিটের মুখপাত্র ডা. প্রকাশ দেবনাথ বলেন, হাসপাতালে একজনের মৃত্যু হয়েছে। হাসপাতালের করোনা ইউনিটে ভর্তি রয়েছেন ৪৫ জন। আর সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন তিনজন।

খুলনা সিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। হাসপাতালের করোনা ইউনিটে ৫৭ জন ভর্তি রয়েছেন। সুস্থ হয়েছেন সাতজন।

গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মালিক ডা. গাজী মিজানুর রহমান জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় চারজনের মৃত্যু হয়েছে। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ছয়জন।



আরও খবর



সাতক্ষীরা সীমান্তে বাংলাদেশি নারীকে ধর্ষণ গ্রেফতার বিএসএফ কর্মী

প্রকাশিত:শনিবার ৩১ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ৩১ জুলাই ২০২১ | ১০১জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সাতক্ষীরা থেকে দিলীপ কুমার দেব:

ভারত থেকে স্থলপথে দেশের ফেরার সময় ভারতীয় সীমান্ত রক্ষী বাহিনী (বিএসএফ) হেফাজতে থাকা এক বাংলাদেশিকে নারীকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠেছে। এই অভিযোগে বিএসএফ-এর এক এসআইকে গ্রেফতার করেছে দেশটির পুলিশ। গ্রেফতারকৃত ওই বিএসএফকর্মীর নাম রামেশ্বর কয়াল। তাকে দুই দিনের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন বনগাঁ মহকুমা আদালত।

সাতক্ষীরা সীমান্তের একাধিক সূত্রে জানা গেছে, ওই নারী বাংলাদেশের গোপালগঞ্জের বাসিন্দা। তিন বছর ধরে গুজরাটের একটি শাড়ির শোরুমে কাজ করছেন তিনি। বুধবার বৈধ পাসপোর্ট ছাড়াই দালালের সাহায্যে ভারত থেকে বাংলাদেশে ফিরছিলেন। এ জন্য দালালকে তিনি ও তার বান্ধবী মিলে মোট ৩০ হাজার রূপি দেন। কিন্তু সাতক্ষীরার সদর উপজেলার ঝাউডাঙ্গা সীমান্তের ওপারে ভারত সীমান্তের গাইঘাটা এলাকার বিএসএফ-এর ১৫৮ ব্যাটালিয়ন সদস্যদের হাতে আটক হন তারা। এরপর রাতে ক্যাম্পে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ করেন ওই নারী।

ওই নারীর অভিযোগ, আমি এবং আমার এক বান্ধবী ভারত থেকে বাংলাদেশে ফেরার পথে বিএসএফ-এর হাতে ধরা পড়ি। কিন্তু দালালকে ধরা যায়নি। এরপর ক্যাম্পে আমাদেরকে নিয়ে যাওয়া হয় এবং জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। পরে রামেশ্বর নামে এক বিএসএফ কর্মকর্তা একটি ঘরে নিয়ে গিয়ে আমাকে ধর্ষণ করে। তিনি আরও বলেন, তাদের কোনো বৈধ পাসপোর্ট ছিল না। তাই চোরাই পথে তারা বাংলাদেশে ফিরছিলেন।

এদিকে, ওই নারীর অভিযোগের ভিত্তিতে বিএসএফ কর্মকর্তা গ্রেফতার করেছে স্থানীয় গাইঘাটা থানার পুলিশ। এরপর তাকে বনগাঁ মহকুমা আদালতে তোলা হলে দুই দিনের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দেন আদালত।

বনগাঁ মহকুমা আদালতের মুখ্য সরকারি আইনজীবী জানিয়েছেন, এ ঘটনায় ওই নারীর বয়ান রেকর্ড ও তার স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়েছে।


আরও খবর



গণপরিবহনে যাতায়াতে লাগবে টিকা গ্রহণের সনদ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৩ আগস্ট ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৩ আগস্ট ২০২১ | ১০৬জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

চলমান কঠোর লকডাউনের মেয়াদ আরও ৫ দিন বাড়িয়ে ১০ আগস্ট পর্যন্ত করেছে সরকার। পরদিন ১১ আগস্ট থেকে গণপরিবহন চলবে। তবে পরিবহনের চালক ও তার সহকারী এবং ১৮ বছরের বেশি বয়সের যাত্রীদের করোনার টিকা গ্রহণের সনদ সঙ্গে রাখতে হবে। এছাড়া গণপরিবহন চলাচলের ক্ষেত্রে রোটেশন পদ্ধতি অনুসরণ করার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার (৩ আগস্ট) সরকারের এক উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বৈঠক শেষে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, ১১ আগস্ট থেকে গণপরিবহন চলবে। তবে এগুলো চলবে রোটেশন পদ্ধতিতে। একটি রুটে একাধিক কোম্পানির যানবাহন চলাচল করে থাকে। মালিকরা একেকদিন একেকটি কোম্পানির বাস চালাবেন। তবে প্রতিটি যানবাহনের চালক ও তার সহকারী এবং ১৮ বছরের উপরের যাত্রীদের সবার করোনার টিকা গ্রহণের সনদ সঙ্গে রাখতে হবে।

তিনি বলেন, ধরুন গাজীপুর থেকে ১০০ গাড়ি প্রতিদিন ঢাকায় আসে। এখান থেকে প্রতিদিন ১০০টি না এসে ৩০টি বা ৫০টি চলাচল করবে। যেগুলো আজকে চলবে সেগুলো আগামীকাল চলবে না। অন্যগুলো চলবে। স্থানীয় প্রশাসন পরিবহন মালিক ও শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করে এটি ঠিক করে নেবে।

লঞ্চ, স্টিমার ও রেলও একইভাবে রোটেশন পদ্ধতিতে চলবে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী।


আরও খবর



গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রামে সর্বোচ্চ ১৫ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ জুলাই ২০21 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২০ জুলাই ২০21 | ৯২জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনায় আক্রান্ত হয়ে চট্টগ্রাম মহানগরী ও জেলার বিভিন্ন উপজেলায় ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড ১৫ জন মারা গেছেন। একই সময়ে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৯২৫ জন। মঙ্গলবার (২০ জুলাই) দুপুরে চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

সিভিল সার্জন দপ্তর থেকে প্রকাশিত করোনার সর্বশেষ প্রতিবেদনে জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রামে ২ হাজার ৫৩৭ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৯২৫ জনের করোনা শনাক্ত হয়। নতুন আক্রান্তদের মধ্যে চট্টগ্রাম মহানগর এলাকার ৫৫৩ জন এবং উপজেলায় ৩৭২ জন রয়েছেন। মারা গেছেন ১৫ জন। যা এক দিনে সর্বোচ্চ। 

মারা যাওয়া ১৫ জনের মধ্যে চট্টগ্রাম নগরীতে ৫ জন এবং বিভিন্ন উপজেলার ১০ জন। এ পর্যন্ত চট্টগ্রামে করোনায় ৮৫৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।


আরও খবর



এবার ঢাকায় ডেঙ্গু রোগী শনাক্তের রেকর্ড

প্রকাশিত:শনিবার ১৭ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৭ জুলাই ২০২১ | ৯৮জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
সারা দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে বর্তমানে ৩৩৬ জন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি রয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকাতে ভর্তি ৩৩১ জন

মহামারি করোনাভাইরাসের পর এবার এডিস মশাবাহী রোগ ডেঙ্গু হানা দিয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে নতুন ৮১ জন ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছেন, যার মধ্যে ৮০ জনই হলেন ঢাকার।যা চলতি বছরে একদিনে ঢাকায় এটাই সর্বোচ্চ শনাক্ত।

শনিবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম এ তথ্য দিয়েছে।

কন্ট্রোল রুমের তথ্য অনুযায়ী, চলতি বছরের জুলাই মাসে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ সংখ্যক ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছে। শুধু জুলাই মাসের ১৭ দিনে ৭৬৭ জন ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছে। তাদের মধ্যে ৯৯ শতাংশ রোগীই ঢাকার।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানায়, সারা দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে বর্তমানে ৩৩৬ জন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি রয়েছেন। এর মধ্যে ঢাকাতে ভর্তি ৩৩১ জন। বাকি পাঁচজন ঢাকার বাইরে। এ বছরের ১ জানুয়ারি থেকে ১৭ জুলাই পর্যন্ত মোট ১১৩৯ জন রোগী ভর্তি হয়েছেন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৮০১ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর আরও জানায়, চলতি বছরে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গুতে ২ জনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের তথ্য পর্যালোচনার জন্য রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানে (আইইডিসিআর) পাঠানো হয়েছে।


আরও খবর
করোনায় আরও ২৩৫ জনের মৃত্যু

মঙ্গলবার ০৩ আগস্ট ২০২১




নিয়মনীতিহীন আইপি টিভির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা : তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত:শুক্রবার ৩০ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ৩০ জুলাই ২০২১ | ৯৩জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

নিয়মনীতিহীন আইপি টিভির বিরুদ্ধে অচিরেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী হাছান মাহমুদ। শুক্রবার দুপুরে মন্ত্রী ঢাকায় তার সরকারি বাসভবনে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, কিছু আইপি টিভি অনেক সময় গুজব রটানোতে যুক্ত হয়, অসত্য তথ্য পরিবেশন ও ভাঁড়ামোতে লিপ্ত হুয়। আবার দেখা যায় অনুমোদন পাবার আগেই কেউ কেউ টেলিভিশন চ্যানেলের মতো অফিস খুলে বসেছে, জেলা প্রতিনিধি নিয়োগ দিচ্ছে। এসকল বিষয়কে একটা নিয়মনীতির মধ্যে আনা প্রয়োজন।

গত বৃহস্পতিবার রাতে আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক উপকমিটির সদস্য ও আইপি টিভি জয়যাত্রার প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা হেলেনা জাহাঙ্গীরকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব।

তাকে গ্রেপ্তারের পর রাজধানীর মিরপুর-১১ নম্বরের এ ব্লকের ৩ নম্বর রোডে জয়যাত্রা টিভি কার্যালয়ে অভিযান চালায় র‌্যাব। র‌্যাব জানিয়েছে, ব্যবসায়ী হেলেনা জাহাঙ্গীরের মালিকানাধীন জয়যাত্রা আইপি টিভির অনুমোদন থাকার কোনো কাগজপত্র পাওয়া যায়নি।

দেশে স্যাটেলাইট টিভি চ্যানেলের পাশাপাশি এখন বেশকয়েকটি আইপি টিভিও তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করছে,যার অনেকগুলো সরকারের অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে।

হাছান মাহমুদ জানান, তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় আইপি টিভিগুলোর কাছ থেকে রেজিষ্ট্রেশনের জন্য দরখাস্ত আহবান করেছিল। প্রায় পাঁচ শতাধিক দরখাস্ত জমা পড়েছে এবং সেগুলো যাচাই-বাছাইয়ের কাজও গুছিয়ে আনা হয়েছে।

তিনি বলেন, যেগুলোর মান ভালো, সেগুলোর রেজিষ্ট্রেশন দেয়া হবে। তবে সারা দেশব্যাপী ব্যাঙের ছাতার মতো আইপি টিভি খুলে যার যেমন ইচ্ছে তেমন করবে সেটা কখনও আইনসম্মত বা বাঞ্ছনীয় নয়। যেগুলোর বিষয়ে নানা অভিযোগ আছে, সেগুলো খতিয়ে দেখে সহসাই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নানা কাণ্ডে আলোচিত-সমালোচিত ব্যবসায়ী হেলেনা জাহাঙ্গীর কিভাবে আওয়ামী লীগের উপকমিটিতে সদস্যপদ পেয়েছেন তা খতিয়ে দেখা হবে বলে জানান আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক।

হাছান মাহমুদ বলেন, ফাঁকফোকর দিয়ে দলের উপকমিটিতে এ ধরণের কারো ঢোকা সমীচীন হয়নি। এদের কমিটিতে রাখার বিষয়ে আরো সতর্ক হওয়া প্রয়োজন ছিল। যারা সুপারিশ করেছেন, তাদেরও আরও জানাশোনার দরকার ছিল। তার বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে এবং তার আইপি টিভির বিষয়ে অভিযোগগুলো আমরা খতিয়ে দেখবো, সত্যতা পেলে অবশ্যই ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

তথ্যমন্ত্রী এরপর বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতির প্রধান উপদেষ্টা সুদীপ্ত কুমার দাস এবং চলচ্চিত্র পরিচালক মুশফিকুর রহমান গুলজারের সঙ্গে দেশের চলচ্চিত্র শিল্পের নানা দিক নিয়ে আলোচনা করেন।


আরও খবর