আজঃ বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪
শিরোনাম

কোনো অজুহাত দিতে চান না রোহিত শর্মা

প্রকাশিত:সোমবার ২০ নভেম্বর ২০23 | হালনাগাদ:সোমবার ২০ নভেম্বর ২০23 | অনলাইন সংস্করণ
ক্রীড়া প্রতিবেদক

Image

ভারতীয় ক্রিকেট দলের আজ ভীষণ কষ্টের এক রাত। এত কাছে, তবু কত দূরে। এবারের বিশ্বকাপের সবচেয়ে ধারাবাহিক বললেও কম বলা হবে, সবচেয়ে ভয়ংকর দলই ছিল ভারত। কোনো প্রতিপক্ষকেই পাত্তা দেয়নি তারা। রাউন্ড রবিন লিগে জিতেছে সব ম্যাচ। বেশির ভাগ ম্যাচই প্রতিপক্ষকে উড়িয়ে দিয়ে। সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডকেও সেভাবেই হারাল তারা। ফাইনালের আগে মনে হচ্ছিল রোহিত শর্মার এই দলকে হারানোর মতো কোনো প্রতিপক্ষই নেই। সেই ভারতই কিনা ফাইনালে হারল যাচ্ছেতাইভাবে! অস্ট্রেলিয়ার কাছে একেবারে দুরমুশ হয়ে।

ম্যাচের পর রোহিত শর্মা, বিরাট কোহলি, লোকেশ রাহুল, রবীন্দ্র জাদেজা, যশপ্রীত বুমরা, মোহাম্মদ শামিদের অন্ধকার চেহারাই বলে দিচ্ছিল সবকিছু। মোহাম্মদ সিরাজ তো কেঁদেই দিলেন। চোখ ছলছল সব ভারতীয় ক্রিকেটারদেরই। কোহলির মুখ অন্ধকার। সবচেয়ে করুণ মুখটা বোধ হয় রোহিত শর্মারই। ২০১১ সালে ভারত শেষবার যে বিশ্বকাপ জিতল, তাতে তিনি দলে ছিলেন না। কোহলির তা-ও একটা বিশ্বকাপ মেডেল আছে বাড়িতে। রোহিতের? কিছুই পেলেন না তিনি। আরেকটা বিশ্বকাপ কি রোহিত খেলবেন? মনে তো হয় না! ভারতের অন্যতম সেরা এই ব্যাটসম্যানের ক্যারিয়ার শেষ হতে যাচ্ছে বৈশ্বিক কোনো ট্রফি না জিতেই।

ম্যাচ শেষে রীতিমতো বুকে পাথর বেঁধেই পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে সঞ্চালক রবি শাস্ত্রীর মুখোমুখি হলেন তিনি। মঞ্চে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি রজার বিনি (তিনি নিজে অবশ্য ১৯৮৩ বিশ্বকাপটা জিতেছিলেন), সচিব জয় শাহ আর কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকারের মুখগুলোও প্রায় অন্ধকার। আনুষ্ঠানিকতার কারণে তাঁদের হাসতে হচ্ছিল, কিন্তু সে হাসিটা যে তাঁরা বড্ড কষ্ট করে হাসছেন, সেটি বোঝাই যাচ্ছিল। রোহিত কী বললেন বিশ্বকাপ ফাইনালে উড়ে গিয়ে। তাঁর কথা, আজ আমরা মোটেও ভালো খেলতে পারিনি। আমাদের ভাগ্যে ছিল না জয়টা।

কোন জায়গায় স্খলনটা হয়েছে এবারের বিশ্বকাপে রাউন্ড রবিন লিগ ও সেমিফাইনালে অদম্য ভারতীয় দলের। রোহিত কোনো অজুহাতে যাননি, আমরা আজ জেতার জন্য সব চেষ্টাই করেছি, কিন্তু হয়নি। আরও ২০-৩০ রান বেশি হলে হয়তো হতো। কোহলি আর রাহুল একটা ভালো জুটি গড়ার চেষ্টা করছিল। আমরা তখন ২৭০-২৮০ রানের সংগ্রহ আশা করছিলাম। কিন্তু আমরা উইকেট হারিয়েছে অসময়ে।

২৪০ রান স্কোরবোর্ডে নিয়েও শুরুতে জয়ের আশাই জাগিয়েছিল ভারত। অস্ট্রেলিয়ার ৩ উইকেট ফেলে দেওয়া গিয়েছিল খুব দ্রুতই। কিন্তু ভারতের সামনে দেয়াল হয়ে দাঁড়িয়ে গেলেন ট্রাভিস হেড আর মারনাস লাবুশেন। চতুর্থ উইকেট জুটিতে দুজন ২১৫ বলে গড়লেন ১৯২ রানের জুটি। ট্রাভিস হেড অসাধারণ। খেলেছেন ১২০ বলে ১৩৭ রানের এক ম্যাচজয়ী ইনিংস। লাবুশেন ১১০ বলে ৫৮। ম্যাচ থেকে অনেক আগেই ছিটকে পড়ল ভারত। রোহিত অবশ্য মনে করেন ফ্লাড লাইটের আলোতে ব্যাটিংটা অনেক বেশি সহজ ছিল, ২৪০ রান স্কোরবোর্ডে নিয়ে যা করা দরকার, সেটিই করেছিলাম। দ্রুত কিছু উইকেট তুলে নেওয়া গিয়েছিল। কিন্তু ট্রাভিস হেড আর লাবুশেন দাঁড়িয়ে গেল। আমার মনে হচ্ছিল রাতে উইকেটটা ব্যাটিংয়ের জন্য কিছুটা বেশি সহায়ক ছিল। তবে আমি কোনো অজুহাত দিতে চাই না। আমরা আগে ব্যাটিং করে যথেষ্ট রান করে অস্ট্রেলিয়ার সামনে চ্যালেঞ্জ ছুড়তে পারিনি। হেড আর লাবুশেনকে কৃতিত্ব দিতেই হবে। দারুণ জুটিটির জন্য।


আরও খবর



অর্থ আত্মসাৎ মামলায় ড. ইউনূসের বিচার শুরু

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১২ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আদালত প্রতিবেদক

Image

গ্রামীণ টেলিকমের শ্রমিক কর্মচারীদের অর্থ আত্মসাৎ ও পাচারের অভিযোগে করা মামলায় ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছেন আদালত। অভিযোগ গঠনের ফলে মামলার আনুষ্ঠানিক বিচার শুরু হয়েছে।

বুধবার (১২ জুন) ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৪ এর বিচারক সৈয়দ আরাফাত হোসেন আসামিদের অব্যাহতির আবেদন খারিজ করে তাদের অভিযোগ গঠন করেন।

এর আগে ২ জুন দুদকের পাবলিক প্রসিকিউটর মোশাররফ হোসেন কাজল আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করতে শুনানি করেন। অপরদিকে ড. ইউনূসসহ ১৪ জনের পক্ষের তাদের আইনজীবী অব্যাহতি চেয়ে শুনানি করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে আদালত এ বিষয়ে আদেশের জন্য ১২ জুন দিন ধার্য করেন।

২০২৩ সালের ৩০ মে গ্রামীণ টেলিকমের শ্রমিক-কর্মচারীদের কল্যাণ তহবিলের ২৫ কোটি ২২ লাখ ৬ হাজার ৭৮০ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে নোবেলজয়ী ড. মুহাম্মদ ইউনূসসহ ১৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা করে দুদক। সংস্থাটির উপ-পরিচালক গুলশান আনোয়ার প্রধান বাদী হয়ে মামলাটি করেন।


আরও খবর



ঘূর্ণিঝড় রেমাল: লক্ষ্মীপুরে প্রস্তুত ১৮৯ সাইক্লোন শেল্টার

প্রকাশিত:রবিবার ২৬ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ২৬ মে ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি

Image

মেঘনা উপকূলীয় জেলা লক্ষ্মীপুর বঙ্গোপসাগর থেকে খুব কাছে হওয়ায় প্রতিটি প্রাকৃতিক দুর্যোগেই ঝুঁকিপূর্ণ থাকে। এতে বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় রেমালেও লক্ষ্মীপুর ঝুঁকির তালিকায় রয়েছে। রেমালের প্রভাবে নদীতে জোয়ারের পানি বেড়ে নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হতে পারে। এছাড়া ৩-৫ ফুট অধিক উচ্চতার বায়ুতাড়িত জলোচ্ছ্বাস হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

এমন পরিস্থিতি থেকে মানুষসহ গবাদিপশু রক্ষায় লক্ষ্মীপুরে ১৮৯টি স্থায়ী ও অস্থায়ী সাইক্লোন শেল্টার প্রস্তুত করা হয়েছে। এছাড়া ঘূর্ণিঝড়কালীন মানুষের সেবা নিশ্চিত করতে ৬৪টি মেডিকেল টিম গঠন করা হয়েছে।

শনিবার (২৫ মে) রাতে লক্ষ্মীপুর জেলা প্রশাসক সুরাইয়া জাহান দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমটির প্রস্তুতি সভায় এসব তথ্য জানান।

সভায় জানানো হয়, দুর্যোগকালীন ত্রাণ তহবিলে ১৯ লাখ ২০ হাজার টাকা ও ৪৫০ মেট্রিক টন চাল রয়েছে। দুর্যোগ থেকে মানুষ ও গৃহপালিত প্রাণি রক্ষায় ফায়ার সার্ভিস, জনপ্রতিনিধি ও রেড ক্রিসেন্টসহ স্বেচ্ছাসেবীরা কাজ করবে।

জেলা প্রশাসক সুরাইয়া জাহান বলেন, উপজেলা প্রশাসনও ঘূর্ণিঝড় থেকে রক্ষায় বিভিন্ন ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণে সভা করেছে। এর থেকে রক্ষায় আমাদেরকে সমন্বিতভাবে কাজ করতে হবে। আমাদের কাছে পর্যাপ্ত ত্রাণ রয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে চরাঞ্চলসহ ঝুঁকিপূর্ণ এলাকার বাসিন্দাদের নিরাপদে আশ্রয়কেন্দ্রে নিয়ে আসার কাজ শুরু করা হবে।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রেজা-ই রাফিন সরকার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মেহের নিগারসহ সরকারি দপ্তরের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



বেনজীর দেশত্যাগ করেছে কি না জানে না দুদক

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৪ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

Image

পুলিশের সাবেক মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদ ও তার পরিবার দেশত্যাগ করেছে কি না সে বিষয়ে দুদকের কাছে কোনো তথ্য নেই বলে জানিয়েছেন সংস্থাটির কমিশনার (তদন্ত) মো. জহুরুল হক। দুদকের তলবে হাজির না হতে পারলে বেনজীর ও তার পরিবার ১৫ দিন সময় চাইতে পারেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।

মঙ্গলবার (৪ জুন) দুদকের প্রধান কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা জানান।

বেনজীর আহমেদ ও তার পরিবারের সদস্যরা দেশে রয়েছেন কি না জানতে চাইলে কমিশনার বলেন, দেশে আছে নাকি বিদেশে গেছেন এ সংক্রান্ত কোনো সুনির্দিষ্ট তথ্য আমাদের কাছে নেই।

তলবের বিষয়ে জানতে চাইলে জহুরুল হক বলেন, দুদক কাউকে নোটিশ করলে তিনি আসতে বাধ্য কি না, সেটা আইনে সুস্পষ্ট বলা নেই। না এলে ধরে নিতে হবে তার কোনো বক্তব্য নেই। তবে তার সুযোগ আছে সময় চাওয়ার। সময় চাইলে দুদক ১৫ দিন সময় দিতে পারবে। এই এখতিয়ার কমিশনের রয়েছে।

দুদক কমিশনার আরও বলেন, সময় দেওয়ার পরও যদি তিনি দুদকে না আসেন তাহলে ধরে নিতে হবে তার কোনো বক্তব্য নেই। তখন নথিপত্র দেখে যদি অভিযোগ প্রমাণিত হয় হবে, না হলে নয়।

অনুসন্ধানের স্বার্থে যা যা করণীয় সবই করা হচ্ছে উল্লেখ করে জহুরুল হক বলেন, অভিযুক্ত ব্যক্তির অনুপস্থিতিতেও বিচার হবে, এতে কোনো বাধা নেই।

গত ৩১ মার্চ বেনজীরের ঘরে আলাদীনের চেরাগ এবং ৩ এপ্রিল বনের জমিতে বেনজীরের রিসোর্ট শিরোনামে একটি দৈনিক পত্রিকায় প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এতে সাবেক আইজিপি বেনজীর আহমেদ ও তার পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ উঠে আসে। অভিযোগ যাচাই-বাছাই শেষে অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নেয় দুদক। অনুসন্ধানের অংশ হিসেবে ইতোমধ্যে বেনজীর আহমেদকে ৬ জুন এবং তার স্ত্রী জীশান মীর্জা ও দুই মেয়েকে ৯ জুন জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, বেনজীর আহমেদ ২০২০ সালের ১৫ এপ্রিল থেকে ২০২২ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত পুলিশের আইজি ছিলেন। এর আগে তিনি ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার ও র‌্যাবের মহাপরিচালক হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন। মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগে ২০২১ সালের ডিসেম্বরে র‌্যাব এবং র‌্যাবের সাবেক ও বর্তমান যে সাত কর্মকর্তার ওপর যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা দেয়, তাদের মধ্যে বেনজীরও ছিলেন বলে জানা গেছে।


আরও খবর



কুমিল্লায় দুই কাভার্ডভ্যানের মাঝে পড়ে আপন দুই ভাই নিহত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৪ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
রবিউল বাশার খান, কুমিল্লা

Image

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে সড়ক দুর্ঘটনায় ট্রাকচালক মো. সাগর ও হেলপার বেলাল হোসেন নামে দুই ভাই নিহত হয়েছেন। তারা কুড়িগ্রাম জেলার রাজারহাট থানার ঝিনাইহাট এলাকার বড়গ্রামের আশরাফুল ইসলামের ছেলে।

পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার (৪ জুন) ভোরে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কালিকাপুর ইউনিয়নের ছুপুয়া এলাকায় ঢাকাগামী কাভার্ডভ্যান গাড়িটির ইঞ্জিন বিকল হয়ে রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকে। গাড়িটিকে পেছন থেকে ধাক্কা দিয়ে চালু করার সহযোগিতার সময় মধ্যখানে থাকা গাড়িটিকে পিছন থেকে অন্য আরেকটি কাভার্ডভ্যান ধাক্কা দিলে সামনে দাঁড়িয়ে থাকা কাভার্ডভ্যানের চালক ও হেলপার দুই গাড়ির মাঝখানে আটকে যায়। খবর পেয়ে স্থানীয় জনগণ ও চৌদ্দগ্রাম ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা তাদেরকে ঘটনাস্থল থেকে মৃত অবস্থায় উদ্ধার করে।

মিয়াবাজার হাইওয়ে থানার উপ-পরিদর্শক আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, আইনি প্রক্রিয়া শেষে নিহত কাভার্ডভ্যানচালক ও হেলপারের লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে।’


আরও খবর



খালেদা জিয়াও কালো টাকা সাদা করেছেন: ওবায়দুল কাদের

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ০৯ জুন ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, কালো টাকা সাদা তো সাইফুর রহমান করেছেন, বেগম খালেদা জিয়াও করেছে। বেগম জিয়া এখন বৃদ্ধ মানুষ। আমি বলতে চাই না, তারাও তাহলে দুর্বৃত্ত? এই বাজেট করা হয়েছে রাঘব বোয়ালদের লুটপাট বন্ধ করার জন্য।

রবিবার (৯ জুন) বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ, জেলা আওয়ামী লীগ এবং সব সহযোগী সংগঠনের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকদের যৌথসভায় এসব কথা বলেন তিনি।

দলের নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি আগুন সন্ত্রাসের যে সংস্কৃতি চালু করেছে, এর বিরুদ্ধে জনগণের জানমাল রক্ষায় আমাদের অবশ্যই শান্তি সমাবেশ করতে হবে। প্রতিরোধ করতে হবে। রাজপথে প্রস্তুত থাকতে হবে।

তিনি বলেন, বিরোধীরাও বসে নেই, তারাও কর্মসূচি দেবে। আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে যেসব কর্মসূচি নেওয়া হচ্ছে তা সফল করতে সব পর্যায়ের নেতাদের অফিসমুখী হতে হবে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, চারজন অপহৃত ইসরায়েলিকে উদ্ধার করতে গিয়ে নারকীয় হত্যাযজ্ঞ চালিয়ে ২১৩ জন বেসামরিক ফিলিস্তিনিকে হত্যার বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাড়া আর কেউ বলেননি। এসব শিশুর অপরাধ কী? এদের হত্যার বিচার হবে না? মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এ নিয়ে একটি কথাও বলেননি। আরব বিশ্ব মনে হয়, তারা ঘুমাচ্ছে।

আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী বিষয়ে ওবায়দুল কাদের জানান, আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে গৃহীত কর্মসূচি দেশের ওয়ার্ড পর্যায় থেকে পালন করা হবে। ২৩ জুন সকালে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হবে। উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সমাবেশ হবে।

এ সময় যৌথসভায় উপস্থিত ছিলেন-আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, আফম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, এসএম কামাল জোসেন, মির্জা আজম, সুজিত রায় নন্দী, উপ দপ্তর সম্পাদক সায়েম খানসহ ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ, জেলা আওয়ামী লীগ এবং সব সহযোগী সংগঠনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকবৃন্দ।


আরও খবর