আজঃ বুধবার ০৪ আগস্ট ২০২১
শিরোনাম

‘লকডাউন’ বাড়তে পারে আরও ৭ থেকে ২১ দিন

প্রকাশিত:রবিবার ০৪ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ জুলাই ২০২১ | ৬০৭জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
সংক্রমণ রোধে ১৪ দিন এবং মৃত্যুর সংখ্যা কমিয়ে আনার জন্য ২১ দিন লকডাউনের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের। সে অনুযায়ী ঈদ সামনে রেখে বিধিনিষেধের মেয়াদ

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে আরও অন্তত সাতদিন বিধিনিষেধ বা লকডাউন বাড়তে পারে। সংক্রমণ ও মৃত্যু না কমায় আসতে পারে এ সিদ্ধান্ত। তবে ঈদের আগে পরিস্থিতি দেখে লকডাউন কিছুটা শিথিলও হতে পারে।

সরকারের শীর্ষ পর্যায় থেকে জানা যায়, সংক্রমণ রোধে ১৪ দিন এবং মৃত্যুর সংখ্যা কমিয়ে আনার জন্য ২১ দিন লকডাউনের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের। সে অনুযায়ী ঈদ সামনে রেখে বিধিনিষেধের মেয়াদ আরও বাড়ানোর বিষয়ে চিন্তা-ভাবনা করা হচ্ছে।

এ বিষয়ে বুধবারের মধ্যে সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে বলে সরকারের শীর্ষ পর্যায় থেকে জানা যায়। 

কঠোরভাবে চলমান লকডাউন বাস্তবায়ন করতে অফিস-আদালত ও গণপরিবহন বন্ধ রেখে সেনাবাহিনী, বিজিবি, পুলিশ, র‌্যাব কাজ করছে। একই সঙ্গে মোবাইল কোর্টও পরিচালনা করছে সরকার। তবে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েই চলছে। সবশেষ রবিবার (৪ জুলাই) ১৫৩ জনের মৃত্যু হয়েছে, যা দেশে রেকর্ড। 

গত ১ জুলাই থেকে সাতদিনের বিধিনিষেধ শুরু হয়। সংক্রমণ কমিয়ে মানুষের জীবন ও জীবিকা- দুটোই ভাবছে সরকার। বিধিনিষেধ বাড়ানোর বিষয়ে গত ২৮ জুন মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে জানান, সাতদিনের পর এই বিধিনিষেধ বাড়ানোর বিষয়ে বিবেচনায় রয়েছে। 


আরও খবর



ভারতে কমেছে করোনায় মৃত্যু-সংক্রমণ

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৩ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ জুলাই ২০২১ | ৯৬জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত ভারতে মৃত্যু ও সংক্রমণ কিছুটা কমেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন ৩৫ হাজার ৩৪২ জন।  এ সময়ের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৪৮৩ জনের। খবরে বলা হয়, বৃহস্পতিবারের তুলনায় ভারতে করোনায় মৃত্যু ও সংক্রমণ কিছুটা কমেছে।

এ নিয়ে দেশটিতে মোট মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ১৯ হাজার ৪৭০ জনের। দেশটিতে মোট আক্রান্ত হয়েছেন ৩ কোটি ১২ লাখ ৯১ হাজার মানুষ। এর আগে বৃহস্পতিবার দেশটিতে ৪১ হাজার ৩৮৩ জন করোনায় আক্রান্ত হন। মৃত্যু হয় ৪৮৩ জনের।

গত মার্চের মাঝামাঝি ভারতে একদিনে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ছিল ২০ হাজারের কাছাকাছি। তার পর দেশটিতে সংক্রমণ লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ে।

গত ৭ মে ভারতে একদিনে সর্বোচ্চ চার লাখ ১৪ হাজারের বেশি রোগী শনাক্তের তথ্য জানানো হয়। ভারত থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনার অতিসংক্রামক ডেল্টা ধরন-এর পেছনে ভূমিকা রেখেছে। মাঝে আক্রান্তের হার ও মৃত্যু কমে আসে। কিন্তু এর মধ্যে ফের মৃত্যু বেড়ে যাওয়ায় ভারতের জন্য অশনিসংকেত।

শুক্রবার পর্যন্ত বিশ্বে করোনাভাইরাসে মৃত্যু হয়েছে ৪১ লাখ ৫১ হাজার ৪৬২ জনের, করোনাক্রান্ত হয়েছেন ১৯ কোটি ৩৪ লাখ ১১ হাজার মানুষ।


আরও খবর
ভারতে আবারও বেড়েছে মৃত্যু

বুধবার ০৪ আগস্ট ২০২১




রেফারিকে কাঠগড়ায় দাঁড় করালেন তিতে

প্রকাশিত:রবিবার ১১ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১১ জুলাই ২০২১ | ১৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

২৮ বছর ধরে যেই অপেক্ষার প্রহর গুণছিলেন আর্জেন্টাইনরা সেই শিরোপা ধরা দিল লিওনেল মেসির হাত ধরে। মেসিরও এতোদিন ধরে অপবাদ ধুয়ে মুছে দিলেন।

রিও দে জেনেইরোর মারাকানা স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় রবিবার শিরোপার লড়াইয়ে ব্রাজিলের মুখোমুখি হয়েছিল আর্জেন্টিনা। যেখানে দলের সিনিয়র সদস্য অ্যানহেল ডি মারিয়ার করা একমাত্র গোলে জয় পেয়েছে লিওনেল স্কলানির দল।

ম্যাচে ফাউলের রেকর্ড হয়েছে। ব্রাজিল করেছে ২২টি, আর্জেন্টিনা ১৯টি ফাউল করেছে। আর এই ফাউলের ছড়াছড়িতে ম্যাচ গতি হারিয়েছে। বারবার বাঁশি দিয়ে ম্যাচ থামিয়েছেন উরুগুয়ান রেফারি এস্তেবান ওস্তোজিচ।

আর এ বিষয়টিতে নাখোশ হয়েছেন ব্রাজিল দলের কোচ তিতে। পাশাপাশি আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়দেরও সমালোচনা করেছেন।

ম্যাচ শেষে রেফারিকে কাঠগড়ায় দাঁড় করালেন তিতে। বললেন, খেলাটাকে এতবার থামানো হয়েছে! আমরা খেলতেই চেয়েছিলাম, কিন্তু ওখানে দেখা গেল অ্যান্টি-ফুটবল। পুরো সময়টায় দেখা গেল ফাউল আদায়ের জন্য ডাইভিং। সেই ফাউলের জন্যও তারা সময় নিল যেন অনন্তকাল! রেফারি খেলাটাকে চালু রাখতে পারেননি। কৌশলই ছিল খেলার গতি ভঙ্গ করা।

গুরুর মতো একই সুরে অভিযোগ এনেছেন ব্রাজিল দলের অধিনায়ক থিয়াগো ডি সিলভা। তার মতে, প্রথমার্ধে এক গোলের লিড পেয়ে দ্বিতীয়ার্ধে শুধু সময় নষ্ট করার তালে ছিলেন মেসিরা।

সরাসরি আর্জেন্টিনার নাম উল্লেখ না করে থিয়াগো বলেন,প্রথমার্ধে তারা আমাদের নিষ্ক্রিয় করে রাখে। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে কোনো প্রতিদ্বন্দিতাই হয়নি। কেবল একটি দলই ফুটবল খেলার চেষ্টা করেছে। আরেক দল কেবল সময় নষ্ট করেছে। এটা অবশ্য হারের বিষয়ে কোনো অজুহাত নয় আমার। কারণ আমরা জানতাম তারা এরকমই করবে। আমাদের যা করার ছিল, তা আমরা করতে পারিনি। প্রথমার্ধেই আমরা পিছিয়ে যাই।

অবশ্য ম্যাচ সামারি বলছে ভিন্নকথা। গোল না পেলেও বল দখলের লড়াইয়ে এগিয়েছিল ব্রাজিলই। ম্যাচের ৬০ শতাংশ সময় বল দখলে রেখেছিল নেইমাররা। শুধু বল দখলই নয়, শুট, পাস, গোলে শট, সবকিছুতেই এগিয়ে ছিল ব্রাজিল। শুধু গোলটি করতে পারেননি।


আরও খবর



প্রেমের ফাঁদে পা দিয়ে ৬ষ্ঠ শ্রেণীর শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

প্রকাশিত:সোমবার ০৫ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৫ জুলাই ২০২১ | ১৫৮জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীর বাসাবো এলাকা থেকে ৬ষ্ঠ শ্রেণির এক শিক্ষার্থীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। রবিবার (৪ জুলাই) রাত আটটার দিকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত শিক্ষার্থীর ফুপা জানান, বাসাবো এলাকার এক কিশোর ওই স্কুলছাত্রীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে আপত্তিকর ভিডিও ধারণ করে। পরে সেই ভিডিও প্রচারের ভয় দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরে মেয়েটিকে ব্ল্যাকমেল করে অনেক টাকা আদায় করে।

সম্প্রতি আরও টাকা দাবি করে কিন্তু মেয়েটি টাকা না দিতে পারায় ওই কিশোর আপত্তিকর ভিডিও এলাকায় ছড়িয়ে দেয়। আর বিষয়টি মেয়ের মা-বাবা জানতে পেরে তাকে বকাঝকা করেন। রবিবার রাতে ওই কিশোরী নানীর বাসায় গলায় ফাঁস দেয়। দরজা ভেঙে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। কিশোরীকে আত্মহত্যায় প্ররোচনার জন্য ওই কিশোরকে গ্রেপ্তারের দাবি জানান নিহত শিক্ষার্থীর ফুপা।

সবুজবাগ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) রবীন্দ্র নাথ সরকার বলেন, ওই শিক্ষার্থীর বাবা পরিবারের অন্য সদস্যদের নিয়ে রাজধানীর যাত্রাবাড়ী এলাকায় থাকেন। নিহত শিক্ষার্থী বাসাবোতে তার নানীর বাসায় থেকে লেখাপড়া করত। কী কারণে মেয়েটি আত্মহত্যা করেছে, সেটি জানতে তদন্ত চলছে। নিহত শিক্ষার্থীর মরদেহ ঢামেক মর্গে রাখা হয়েছে। নিহতের পরিবার অভিযোগ দিলে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


আরও খবর



নিরাপত্তা বাহিনীর অভিযানে তালেবানের ২৬১ জন নিহত

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১৪ জুলাই ২০২১ | ১১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আফগানিস্তানে তালেবানের সঙ্গে নিরাপত্তা বাহিনীর গজনি এবং কান্দাহার শহরের বিভিন্ন স্থানে তীব্র লড়াই চলছে।  মঙ্গলবার তালেবান বামিয়ান প্রদেশের সায়ঘান জেলা, গজনির মালিস্তান, ফারাহ প্রদেশের পুর চমন এবং খোস্ট প্রদেশের মুসা খেলের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে। এ সময়ের মধ্যে দেশের বিভিন্ন প্রদেশে নিরাপত্তা বাহিনীর অভিযানে তালেবানের ২৬১ জনকে হত্যার দাবি করেছে।

আফগানিস্তানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, দেশের বিভিন্ন প্রদেশে নিরাপত্তা বাহিনীর অভিযানে তালেবানের ২৬১ জন নিহত হয়েছেন। একই সঙ্গে তাদের বহু অভিযানের পরিকল্পনা নস্যাৎ করে দেওয়া হয়েছে।

বামিয়ান প্রদেশের সাজ্জাদ ফলাদি নামের এক বাসিন্দা বলেন, সায়ঘান ও কুমার্দ জেলা দখল হয়ে গেছে। মানুষ এটা নিয়ে বেশ চিন্তিত। বামিয়ান প্রদেশের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক মুহাম্মদ রেজা ইব্রাহিম বলেন, বামিয়ানের প্রায় ২০ হাজার পরিবার অন্যান্য জেলায় আশ্রয় নিয়েছে।

গজনির প্রাদেশিক কাউন্সিলের সদস্য গোলাম হোসেন বলেন, গজনির পরিস্থিতি মোটেও ভালো নয়। শত্রুরা আবাসিক এলাকায় অবস্থান নিয়েছে। অপরদিকে কান্দাহারের অধিকারকর্মী মুহাম্মদ ওসমান বলেন, শহরের অভ্যন্তরে যুদ্ধ লেগে গেছে। বহু জেলা দখলে নিয়েছে তালেবান।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র রুহুল্লাহ আহমাদজাই বলেন, যেখানে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের লক্ষ্য করে শত্রুরা হামলা চালাচ্ছে, সেসব এলাকাকে বেশি গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। এসব এলাকা রক্ষা এবং সেখানে অভিযান পরিচালনায় কর্মসূচি রয়েছে। সম্প্রতি তালেবানের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, দেশের প্রায় ৮৫ শতাংশ এলাকা সংগঠনটির নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র সেনা প্রত্যাহার করে নেওয়ার ঘোষণার পর থেকেই তালেবান দেশের বিভিন্ন এলাকা দখলে নেওয়া শুরু করে। সেনা প্রত্যাহার প্রক্রিয়ার মধ্যে এলাকার পর এলাকা দখল আরও জোরদার করে তালেবান।


আরও খবর
ভারতে আবারও বেড়েছে মৃত্যু

বুধবার ০৪ আগস্ট ২০২১




শ্রীপুরে দুর্বৃত্তের ছুড়া পেট্রোলে দোকানে আগুন, দগ্ধ যুবকের মৃত্যু!

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৭ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ জুলাই ২০২১ | ৯৩জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি :

গাজীপুরের শ্রীপুরে গ্যাস সিলিন্ডারের মূল্য নির্ধারণ নিয়ে বাক বিতন্ডায় দোকানে হামলা এবং দোকান মালিকের গায়ে পেট্রোল ঢেলে আগুন লাগিয়ে হত্যা চেষ্টার ঘটনার টানা চারদিন ঢাকা বারডেম হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় অগ্নিদগ্ধ শরীর নিয়ে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যবরণ করলেন দগ্ধ আরিফ হোসেন (৩০)।

সোমবার (২৬ জুলাই) দিবাগত রাত সাড়ে এগারোটার দিকে রাজধানীর শেখ হাসিনা বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় আরিফের।

তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন নিহতের বড় ভাই তোফাজ্জল হোসেন।

নিহত আরিফ হোসেন (৩০) শ্রীপুর উপজেলার তেলিহাটি ইউনিয়নের উদয়খালী গ্রামের জজ মিয়ার ছেলে। সে স্থানীয় বিবিএস কেবলসে চাকুরির পাশাপাশি বিবিএস কোম্পানির সামনে ব্যবসা করতো।

এ ঘটনায় মো. তোফাজ্জল হোসেন বাদী হয়ে শ্রীপুর মডেল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন। অভিযুক্তরা হলো, উপজেলার গোদারচালা গ্রামের ফালু সরকারের ছেলে তেলিহাটি ইউনিয়ন যুবদলের সভাপতি তোফাজ্জল সরকার, মোফাজ্জল সরকার এবং তাইজু সরকার।

উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার(২২ জুলাই) সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টার দিকে তেলিহাটি ইউনিয়ন যুবদলের সভাপতি তোফাজ্জল সরকার একটি গ্যাস সিলিন্ডারের দাম নিয়ে দোকানদার সাখাওয়াতের সাথে বাকবিতন্ডা হয়। এক পর্যায়ে দোকানদারের বাবা জজ মিয়াকে মারধর করে। এর আধা ঘণ্টা পরে তেলিহাটি ইউনিয়ন যুবদলের সভাপতি তোফাজ্জল সরকার তার লোকজন নিয়ে ওই দোকানে ভাঙচুর করে পেট্রোল ঢেলে আগুন লাগিয়ে দেয়। এ সময় প্রতিপক্ষের হামলায় ৬ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় বিভিন্ন ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাদেরকে শ্রীপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও ঢাকা মেডিকেল কলেজ বার্ন ইউনিটে পাঠানো হয়। এসময় হামলাকারীরা ভাংচুর এবং লুটপাট করে ড্রয়ার ভেঙ্গে নগদ ৯ লক্ষ ২০ হাজার টাকা নিয়ে যায় এবং  প্রায় ১৫ লক্ষ টাকার মালামালের ক্ষতি সাধন করে।

এ ঘটনায় আহত ছয়জনের মধ্যে আরিফ, সজিব ও রুবেল নামের তিনজনের শরীর পেট্রোল ছিটিয়ে আগুন লাগিয়ে দেয় দুর্বৃত্তরা। যার মধ্যে আরিফের অবস্থা আশংকাজনক।

এ ব্যাপারে শ্রীপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি খোন্দকার ইমাম হোসেন হামলার ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে আসামিদের গ্রেপ্তারের জন্য আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।


আরও খবর