আজঃ মঙ্গলবার ০৩ আগস্ট ২০২১
শিরোনাম

মধ্যযুগীয় কায়দায় হাত-পা বেঁধে ব্যবসায়ীকে নির্যাতন (ভিডিও)

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ৩০ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ৩০ মার্চ ২০২১ | ২৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

মধ্যযুগীয় কায়দায় হাত-পা বেঁধে আল-আমীন (৩১) নামে এক কাঠ ব্যবায়ীকে পিটিয়ে গুরুতর জখম করেছে স্থানীয় বখাটেরা। ঘটনাটি ঘটেছে পিরোজপুর জেলার ইন্দুরকানী থানার পত্তাশী গ্রামে। নির্যাতনের পরও খ্যান্ত হননি তারা। এ ঘটনা জানজানি হলে উপয়ন্ত না দেখে, ঘটনা ভিন্ন দিকে প্রবাহিত করার জন্য ওই ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে একটা মামলা দায়ের করে।

অভিযোগ রয়েছে, স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদর চেয়ারম্যান এর সাথে পূর্ব শত্রুতা এবং চলমান ইউপি নির্বাচনে তার বিরোধীতা করায় পরিকল্পিত ভাবে ব্যবসায়ীকে নির্যাতন করা হয়। রবিবার রাতে এ বর্বরাচিত হামলার ঘটনায় ব্যবসায়ী মামলা করার কথা জানালে ইন্দুরকানী থানা পুলিশ তা আমলে নেয়নি।

বর্তমান পুলিশ প্রহরায় হ্যান্ডকাফ পরা অবস্থায় পিরাজপুর জেলা হাসপাতাল নির্যাতিত আল আমীনর চিকিৎসা চলছে। নির্যাতিত আল আমীন ওই গ্রামর মাঃ আলী আকবার এর ছেলে।

হাসপাতাল চিকিৎসাধীন আলী আমীন জানায়, রবিবার রাত স্থানীয় একটি মাদ্রাসায় মাহফিল শুনে স্থানীয় এক যুবকের সাথ বাড়ি ফিরছিলেন। এ সময় পত্তাশী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোয়াজ্জম হোসেন হাওলাদারর সমর্থিত ১০-১২ জন যুবক তার উপর অতর্কিত হামলা করে। এরপর তাদের সাথে আরও ১৫-২০ জন যোগ দেয় । এসময় সন্ত্রাসীরা তাক মাটিতে ফেলে হাত পা পিঠমোড়া দিয়ে বেঁধে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতন করে। এ সময় ওই ইউনিয়ন পরিষদের স্থানীয় গ্রাম পুলিশ মাঃ রিয়াজ উপস্থিত থাকলেও, সবাই নিরব ভূমিকা পালন করে।

আল আমীনর অভিযাগ ইউপি চেয়ারম্যান মায়াজ্জম এর সমর্থক থাকলেও, বর্তমান তার সাথে দূরত্ব রয়েছে । এজন্যই তার উপর ক্ষিপ্ত এই ইউপি চেয়ারম্যান। তার নির্দেশে বর্বরাচিত নির্যাতন করা হয়। নির্যাতনর এক পর্যায় অজ্ঞান হয় পড়ে। খবর পেয়ে ইদুরকানী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তাকে উদ্ধার করে থানায় নিয় যায়। এরপর সেখান থেকে তাকে পুলিশ প্রহরায় পিরাজপুর জলা হাসপাতাল ভর্তি করা হয়। আল-আমীন অভিযোগ করেন, মারধারর ঘটনা ধামাচাপা দেওয়া এবং তাকে ফাঁসানার জন্য এ মামলা দেয়া হয়।

গ্রামপুলিশ রিয়াজ জানান, আল আমীনকে ব্যাপকভাবে মারধার করা হয় ।

এ বিষয় ইউপি চয়ারম্যান মোয়াজ্জেম জানান,আল আমীনক মারধারর খবর শুনে স্থানীয় চকিদার রিয়াজকে ঘটনাস্থেল পাঠিয়ে উদ্ধার করে। এরপর বিষয়টি তাৎক্ষণিকভাব ইদুরকানী থানায় জানানা হয়। তবে এ ঘটনায় নিজেকে জড়িত থাকার কথা অম্বীকার করে বলেন, যারা এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ ব্যাপার ইদুরকানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মাঃ হুমায়ুন কবির জানান, একটি মেয়েকে শ্লীলতাহানির অভিযাগে আল আমীনক আটক করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে ইদুরকানী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এরআগে তাকে মারধার করা হয়। এ ব্যাপারে তদন্ত চলছে। অপরাধিদের আইনের আওতায় আনা হবে।

উল্লখ্য, এর আগ গত বছরর ৪ নভম্বর একটি কর্মী সভায় ইউপি চেয়ারম্যান মোয়াজ্জেম হোসেন হাওলাদার এর সমালাচনা করায় রঞ্জন কুমার মজুমদার নাম ওয়ার্ড আওয়ামী লীগর এক সাধারণ সম্পাদকক পিটিয় পা ভেংগে দেয় তার সমর্থকরা। আসন ইউপি নির্বাচনক কেদ্র করে প্রতিদ্বন্ধীদের দমনের জন্য বিভিন্ন ভাবে নির্যাতনের অভিযাগ রয়েছে এই ইউপি চেয়ারম্যান এর বিরুদ্ধে।


আরও খবর



যান্ত্রিক ত্রুটিতে ডিএসইর লেনদেন বন্ধ

প্রকাশিত:রবিবার ১৮ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১৮ জুলাই ২০২১ | ১১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) কারিগরি ত্রুটির কারণে স্বাভাবিক লেনদেনে বন্ধ রয়েছে। রবিবার (১৮ জুলাই) বেলা ১১টা ৯ মিনিট থেকে লেনদেন বন্ধ রয়েছে।

এ বিষয়ে ডিএসইর ভারপ্রাপ্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক আব্দুল মতিন পাটোয়ারী বলেন, আমাদের সফটওয়্যারের ম্যাচিং ইঞ্জিনে সমস্যা দেখা দিয়েছে। সমস্যা চিহ্নিত করতে পেরেছে আমাদের আইটি টিম। বিষয়টি সমাধানের চেষ্টা চলছে।  তবে তা সমাধানে কত সময় লাগবে তা নিশ্চিত বলা যাচ্ছে না বলে জানান তিনি।

ডিএসই সূত্রে জানা গেছে, বেলা ১১ টার পর থেকে কিছুটা সমস্যা শুরু হয়েছে।  তবে বেলা সাড়ে ১১ টার পর থেকে সফটওয়্যার সিস্টেমটি একেবারে ডাউন হয়ে গেছে।  ফলে ডিএসইতে লেনদেন বন্ধ হয়ে যায়।

এর আগে গত বছর ১৮ আগস্ট বিকেলে ডিএসইর আপডেট ভার্সনের ওয়েবসাইট উদ্বোধনের পরেই বড় সমস্যায় পড়ে বিনিয়োগকারীরা। ওই উদ্বোধনের পরে ১৯ ও ২০ আগস্ট ভোগান্তিতে পড়েন বিনিয়োগকারীরা।  আপডেট সাইটটি খুব ব্যবহারবান্ধব ও রেসপনসিভ হবে বলে জানানো হলেও ওই দুইদিন ভোগান্তিতে পড়েন তারা। ওই ভোগান্তির কারণে গত ২৪ আগস্ট ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ও সিএসই বিভাগের চেয়ারম্যান ড. মো. মুস্তাফিজুর রহমানকে আহ্বায়ক করে তদন্ত কমিটি করে বিএসইসি।  ওই কমিটি তদন্ত করে প্রতিবেদন কমিশনে জমা দেয়।



আরও খবর



তালেবানের হয়ে যুদ্ধ করছে ১০ হাজার পাকিস্তানি

প্রকাশিত:শনিবার ১৭ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৭ জুলাই ২০২১ | ৭৬জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বিদেশে গিয়ে পাকিস্তানকে একহাত নিলেন আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানি। দেশটিতে চলমান সংঘাতে তালেবানকে সহযোগিতা করার অভিযোগ তুললেন ইমরান খানের দেশের বিরুদ্ধে।

শুক্রবার উজবেকিস্তানের রাজধানী তাসখন্দে তিনি পাকিস্তানের তীব্র সমালোচনা করেন।

আন্তর্জাতিক এ সম্মেলনে পাকিস্তানের তীব্র সমালোচনা যেমন করেছেন তেমনই আফগানিস্তানে শান্তি ফেরাতে দেশটির সাহায্যও চান ঘানি।

তিনি পাকিস্তানের প্রতি আহ্বান জানান, দেশটি যেন তার প্রভাবকে যথাযথভাবে কাজে লাগিয়ে এর মাধ্যমে আফগানিস্তানে শান্তি প্রতিষ্ঠা এবং শত্রুতা দূর করতে সাহায্য করে।

ঘানি তার বক্তব্যে বলেন, গোয়েন্দা সংস্থাগুলোর ধারণা অনুযায়ী, তালেবানের হয়ে যুদ্ধ করার জন্য গত মাসেই পাকিস্তান এবং অন্যান্য জায়গা থেকে আফগানিস্তানে ১০ হাজারের বেশি মানুষ এসেছেন।

এসময় তালেবানেরও তীব্র সমালোচনা করেন তিনি। তিনি বলেন, তালেবান বলেছিল, তারা শহর এবং প্রাদেশিক রাজধানীগুলোতে হামলা চালাবে না। কিন্তু তারা কথা রাখছে না। তারা শহরে এবং প্রদেশের রাজধানীগুলোতে অব্যাহতভাবে হামলা চালাচ্ছে।

সম্মেলনে তালেবান এবং তার সমর্থকদের প্রতি কঠোর বার্তা দিয়েছেন ঘানি।

তিনি বলেন, আমরা তালেবান এবং তার সমর্থকদের বিরুদ্ধে লড়াই করতে প্রস্তুত আছি। রাজনৈতিক সমাধানই এগিয়ে যাওয়ার মূলমন্ত্র- তারা এটা না বোঝার আগ পর্যন্ত আমরা লড়াই চালিয়ে যাব।

এরপর আফগান প্রেসিডেন্ট জানিয়ে দিলেন তিনি শান্তি চান।

যুদ্ধ বন্ধে তালেবানকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়ে ঘানি বলেন, এই যুদ্ধ বন্ধে আফগান সরকারের সঙ্গে কাজ করার পাশাপাশি ধ্বংসাত্মক সাম্প্রতিক হামলা বন্ধে তালেবানের প্রতি আহ্বান জানাই।

আফগান প্রেসিডেন্টের আহ্বানে কতটুকু সাড়া দেবে তালেবান তা এখনো পরিষ্কার নয়। তবে ইতোমধ্যে তালেবানের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, দেশটির প্রায় ৮৫ শতাংশ এলাকা এখন তাদের দখলে রয়েছে।  এ ছাড়া দেশের বিভিন্ন প্রদেশে নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে লড়ছে সংগঠনটি।


আরও খবর



ভারতে ফের বেড়েছে সংক্রমণ-প্রাণহানি, বেড়েছে সক্রিয় রোগীও

প্রকাশিত:শনিবার ২৪ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ জুলাই ২০২১ | ৯১জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ভারতে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা ফের বেড়েছে। একইসঙ্গে আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে নতুন সংক্রমিত রোগীর সংখ্যাও। এছাড়া ধারাবাহিকতা ভেঙে গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে বেড়েছে সক্রিয় রোগী। গত একদিনে দেশটিতে সুস্থ হওয়া মানুষের তুলনায় ভাইরাসে নতুন করে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বেশি।

শনিবার (২৪ জুলাই) ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে নতুন করে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৩৯ হাজার ৯৭ জন মানুষ। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় দেশটিতে নতুন সংক্রমিত রোগী বেড়েছে প্রায় চার হাজার। সর্বশেষ এই সংখ্যাসহ মহামারির শুরু থেকে দেশটিতে করোনায় আক্রান্তের মোট সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ কোটি ১৩ লাখ ৩২ হাজার ১৫৯ জনে।

অন্যদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৫৪৬ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় গত একদিনে মৃত্যু বেড়েছে ৬৩ জন। মহামারির শুরু থেকে দেশটিতে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন ৪ লাখ ২০ হাজার ১৬ জন।

এদিকে সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ভারতে ভাইরাসে নতুন করে আক্রান্ত রোগীর তুলনায় সুস্থ হওয়া মানুষের সংখ্যা কম। ফলে দেশটিতে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা কমার ধারবাহিকতায় ছেদ পড়েছে। সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ভারতে ফের বেড়েছে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা। সংক্রমণের হার রয়েছে আড়াই শতাংশের কাছাকাছি।

ভারতের মোট দৈনিক সংক্রমণের প্রায় ৪৫ শতাংশই শনাক্ত হয়েছে দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় রাজ্য কেরালায়। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যটিতে ১৭ হাজার ৫১৮ জন নতুন করে ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়েছেন। অন্যদিকে মহারাষ্ট্রে দৈনিক সংক্রমণ কিছুটা কমে প্রায় সাড়ে ৬ হাজারে নেমে এসেছে।

এছাড়া গত কয়েকদিন ধরেই কর্নাটক, তামিলনাড়ু ও অন্ধ্রপ্রদেশে সংক্রমণ ২ হাজারের নিচে রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় আসাম এবং উড়িষ্যাতেও সংক্রমণ কমে ২ হাজারের নিচে নেমে এসেছে। তবে মণিপুরে পরিস্থিতির পরিবর্তন হয়নি। গত ২৪ ঘণ্টায় সেখানে আক্রান্ত ১ হাজার ৩০০-র কাছাকাছি।

অন্যদিকে মণিপুরের মতো ভারতের উত্তর-পূর্বের বেশ কয়েকটি রাজ্যের করোনা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে। দৈনিক সংক্রমণ ৫০০-র আশপাশে থাকলেও সংক্রমণ বেড়েছে মিজোরাম, মেঘালয়, অরুণাচল প্রদেশের মতো রাজ্যগুলোতে।



আরও খবর



ময়মনসিংহ মেডিকেলের করোনা ইউনিটে আরও ১৯ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৭ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ জুলাই ২০২১ | ৮৭জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকালে পাওয়া সর্বশেষ তথ্যমতে, এর মধ্যে পাঁচজন করোনা আক্রান্ত হয়ে এবং বাকি ১৪ জন উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন। এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় ময়মনসিংহ জেলায় ৩৩২ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিন ইউনিটের কনসালটেন্ট ও করোনা ইউনিটের ফোকাল পার্সন ডা. মো. মহিউদ্দিন খান গণমাধ্যমকে এসব তথ্য জানান। করোনা পজিটিভ হয়ে মারা গেছেন ময়মনসিংহ সদরের রহিমা খাতুন (৪৫), ফ্রান্সিলা কামা (৪৬), ফুলপুরের অজিত পণ্ডিত (৭০), নেত্রকোনার শেখ ফরিদ (৩২) ও জামালপুরের আইনুদ্দিন (৮৫)।

এ ছাড়া উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ময়মনসিংহের ফুলপুরের মনোয়ারা (৬০), ধোবাউড়ার ফাতেমা (৭০), মুক্তাগাছার নুরুল ইসলাম (৬০), রোকনুজ্জামান (৫০), গৌরীপুরের রাবেয়া খাতুন (৫৫), নেত্রকোনার রোমেলা (৬৫), কেন্দুয়ার মইনুল (৬০), জামালপুরের সুফিয়া বেগম (৬৮), মো. শওকত আলী (৬৫), রমজান (৩৫), বকশিগঞ্জের খাদিজা (৬৫), কিশোরগঞ্জের হোসেনপুরের রফিকুল (৫৫), টাংগাইলের ধানবাড়ীর আবদুর রশীদ (৫৫) ও গাজীপুরের শ্রীপুরের রাবেয়া খাতুন (৬৪)।

ডা. মো. মহিউদ্দিন খান জানান, হাসপাতালে করোনা ইউনিটে মোট রোগী ভর্তি আছেন ৪৩৮ জন। আর আইসিইউতে ভর্তি আছেন ১৯ জন।

এদিকে গতকাল সোমবার দিবাগত রাতে সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, গত ২৪ ঘণ্টায় র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন ও আরটিপিসিআর টেস্টে এক হাজার ৩০০ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এতে মোট পজিটিভ হয়েছেন ৩৩২ জন। এদের মধ্যে র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টে ১৯৫ জন ও আরটিপিসিআর টেস্টে ১৩৭ জন রয়েছেন। শনাক্তের হার ২৫ দশমিক ৫৩ শতাংশ।

এদিকে জেলার সর্বশেষ করোনা টেস্টের প্রতিবেদন অনুযায়ী জানা যায়, ময়মনসিংহ সদরে ১৬২ জন, নান্দাইলে ১৯ জন, ঈশ্বরগঞ্জে দুজন, গৌরীপুরে সাতজন, ফুলপুরে নয়জন, তারাকান্দায় দুজন, হালুয়াঘাটে আটজন, ধোবাউড়ায় চারজন, মুক্তাগাছায় ৭০ জন, ফুলবাড়িয়ায় ১০ জন, ত্রিশালে ১২ জন, ভালুকায় ২৫ জন ও গফরগাঁওয়ে দুজনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।



আরও খবর



৯০০ গরু নিয়ে ঢাকায় পৌঁছেছে ক্যাটল স্পেশাল ট্রেন

প্রকাশিত:রবিবার ১৮ জুলাই ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১৮ জুলাই ২০২১ | ১৫৬জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

খামারি ও ব্যবসায়ীদের সহায়তায় বিশেষ ক্যাটল স্পেশাল ট্রেন পরিচালনা করছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। এরই মধ্যে ৯০০ কোরবানির পশু নিয়ে ৩টি স্পেশাল ট্রেন রাজধানী ঢাকায় পৌঁছেছে। রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ বলছে, প্রয়োজনে আরও ক্যাটল স্পেশাল ট্রেন পরিচালনা করা হবে।

আজ রবিবার (১৮ জুলাই) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সবশেষ ক্যাটল স্পেশাল ট্রেনটি কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে পৌঁছায়। জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জ স্টেশন থেকে গতকাল বিকাল সাড়ে ৩টায় ৪০০ গরু নিয়ে ঢাকার উদ্দেশে রওনা দেয় ট্রেনটি।

এছাড়াও আজ ভোরের দিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে ক্যাটল স্পেশাল ট্রেন কমলাপুরে এসে পৌঁছায়। সেই ট্রেনে ১০০টি গরু ছিল। আর গতকাল বিকাল ৩টায় দেওয়ানগঞ্জ থেকে আরেকটি ক্যাটল ট্রেন এসে কমলাপুরে পৌঁছায়। সেটিতেও ৪০০ গরু আনা হয়েছে। সবমিলিয়ে এখন পর্যন্ত ট্রেনে ৯০০ গরু ঢাকায় এসে পৌঁছেছে।

রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, একটি ট্রেনে সর্বোচ্চ ৪০০টি পর্যন্ত পশু পরিবহন করা যাচ্ছে। এর পাশাপাশি খুলনা থেকেও ঢাকায় পশু পরিবহনের জন্য ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। ব্যবসায়ীদের আগ্রহ থাকলে সেখান থেকেও স্পেশাল ট্রেন চালানো হবে।

কমলাপুর স্টেশন ম্যানেজার মোহাম্মদ মাসুদ সারওয়ার বলেন, গতকাল থেকে আজ পর্যন্ত ৩টি বিশেষ কাটার ট্রেনে গরু আনা হয়েছে। এই ৩টি ট্রেনে মোট ৯০০টি গরু এসেছে।


আরও খবর