আজঃ বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২
শিরোনাম

মোংলায় ইজিভ্যান চাপায় শিশুর মৃত্যু

প্রকাশিত:বুধবার ২০ এপ্রিল ২০22 | হালনাগাদ:বুধবার ২০ এপ্রিল ২০22 | ২৭৫০জন দেখেছেন
আব্দুল্লাহ আল মামুন

Image

নূর আলম, মোংলা প্রতিনিধি:

মোংলায় ইজিভ্যানের চাপায় এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। বুধবার (২০ এপ্রিল) বিকেলে শহরতলীর কাইনমারী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও নিহত শিশুর পরিবার জানায়, উপজেলার চাঁদপাই ইউনিয়নের কাইনমারী গ্রামের বাসিন্দা মিন্টু রায়ের (৩৫) শিশু পুত্র নিরুপম রায় (০৬) বুধবার বিকেল ৫টার দিকে দাদী উর্মিলা রায়ের (৭৫) সাথে পাশের বাড়ীতে একটি ধর্মীয় অনুষ্ঠানে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে নিরুপম দাদীর হাত ছেড়ে দৌড়ে রাস্তা পার হতে গেলে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ইজিভ্যানের নিচে পড়ে।

ইজিভ্যানের নিচে পড়লে শিশুটির পিঠের উপর দিয়ে ভ্যানের চাকা চলে যায়। এতে গুরুতর আহত নিরুপমকে দ্রুত উদ্ধার করে বিকেল সোয়া ৫টার দিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ মোঃ ফয়সাল ইসলাম স্বর্ন বলেন, শিশুটিকে যখন হাসপাতালে আনা হয়েছিলো তখন তার অবস্থা খুবই আশংকাজনক ছিলো।

পরে চিকিৎসা দেয়ার এক পর্যায়ে তার মৃত্যু হয়। এদিকে একমাত্র শিশু পুত্রের মৃত্যুতে বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন মা শম্পা রায় (২৫)। মৃত সন্তানকে কোলে নিয়ে শোকে কাতর মা বলছেন, তার শিশু মারা যায়নি, ঘুমাচ্ছেন। কোল থেকে মৃত ছেলেকে ছাড়ছেন না, কেউকে নিতেও দিচ্ছেন না। কোলে আঁকড়ে রেখে ফ্যাল ফ্যাল চোখে তাকিয়ে থাকছেন। মা ও সন্তানের এমন দৃশ্য দেখে চোখের পানি ঝরেছে হাসপাতালের সকলের। কেউই যেন মেনে নিতে পারছেন না এমন মৃত্যুকে।

মোংলা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ মনিরুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে হাসপাতালে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। পরবর্তীতে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।


আরও খবর



ভারত সরকারিভাবে গম রপ্তানি বন্ধ করেনি: খাদ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ১৫ মে ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ১৫ মে ২০২২ | ২৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সরকারিভাবে ভারত গম রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করেনি। তবে বেসরকারিভাবে রপ্তানি বন্ধ রয়েছে বলে জানিয়েছেন খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার। 

তারা রপ্তানি বন্ধ করলেও এতে বাংলাদেশের ওপর তেমন কোনো প্রভাব পড়বে না। ভারত গম রপ্তানির ওপর নিষেধাজ্ঞা দ্রুত তুলে নেবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, তাদের উৎপাদিত গম তাদেরকে তো বিক্রি করতেই হবে।

রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে যুদ্ধ শুরুর পর গম আমদানির সবচেয়ে বড় উৎস হয়ে উঠেছিল ভারত। তবে শুক্রবার থেকে দেশটি গম রপ্তানি বন্ধের ঘোষণা দেয়। এ বিষয়ে রবিবার (১৫ মে) দুপুরে সিলেট সদর উপজেলায় খাদ্য গুদাম পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার এসব কথা বলেন।

দেশে খাদ্যসংকট হবে না বলে আশ্বস্ত করে খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেছেন, সুনামগঞ্জে সম্প্রতি বোরো ফসলের কিছু ক্ষয়-ক্ষতি হলেও চাষাবাদ হয়েছে অনেক বেশি। এ থেকে আমাদের ধান-চালের শক্তিশালী একটি মজুত গড়ে উঠবে। এছাড়াও গত আউশ ও আমন ধানেরও আমাদের প্রচুর মজুত রয়েছে। বৃষ্টির কারণে আগামী আউশ ফসলও ভালো হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। তাই দেশে কোনোভাবেই খাদ্যসংকট তৈরি হবে না।

খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার বলেন, ১ বছর থেকে আমরা বিদেশ থেকে চাল আমদানি করিনি। আমাদের কৃষকদের উৎপাদিত ধান দিয়েই চালের চাহিদা মিটছে। তবে গম আমাদের দেশে হয় না, বিদেশ থেকে আমদানি করতে হয়। গম আমদানি করা হতো ইউক্রেন ও রাশিয়া থেকে। কিন্তু এই দুদেশের যুদ্ধের সময়ে আমরা সম্প্রতি পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত থেকে ৩ লাখ মেট্রিক টন গম আমদানি করেছি। পরবর্তীতে যা দরকার তাও ভারত থেকে আমদানি করা হবে।

সম্প্রতি পেঁয়াজের দামে ঊর্ধ্বমুখীর মধ্যে সরকার পেঁয়াজ আমদানির চেষ্টা চালাচ্ছে জানিয়ে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ভবিষ্যতে পেঁয়াজের দাম বাড়বে না। সিলেটে ধান চাল সংরক্ষণের জন্য ২৫ হাজার টন ধারণক্ষমতা সম্পন্ন সাইলো নির্মানণের পরিকল্পনা রয়েছে সরকারের। এজন্য জায়গা খোঁজা হচ্ছে। জায়গা পাওয়া গেলেই সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে কাজ শুরু হবে।


আরও খবর
ফের বাড়লো স্বর্ণের দাম

মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২




ইমামের বেতন তোলা নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ১

প্রকাশিত:শনিবার ২৩ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ২৩ এপ্রিল ২০২২ | ৩৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সিরাজগঞ্জের বেলকুচিতে ইমামের বেতনের টাকা তোলাকে কেন্দ্র করে মসজিদে সংঘর্ষে বাবুল হোসেন (৪২) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্তত সাতজন। শুক্রবার (২২ এপ্রিল) রাতে দুপক্ষের সংঘর্ষে আহত বাবুল হোসেনকে সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে নেয়া পথেই তার মৃত্যু হয়।

নিহত বাবুল হোসেন তেয়াশিয়া গ্রামের মৃত ছাত্তার আলীর ছেলে। তিনি পেশায় তাঁত শ্রমিক ছিলেন।

নিহতের ভাতিজা মনিরুল ইসলাম ও স্থানীয় যুবক ইউসুফ জানান, তেয়াশিয়া গ্রামের ইউপি সদস্য আব্দুল মালেক গ্রুপের সঙ্গে একই গ্রামের মুছা প্রামাণিক গ্রুপের মধ্যে পূর্ব থেকেই বিরোধ চলে আসছিল।

শুক্রবার তারাবির নামাজ পড়ানোর পর মসজিদের ইমামের টাকা তোলা নিয়ে দুপক্ষের কথা কাটাকাটি হয়। এর এক পর্যায়ে মসজিদের মধ্যেই উভয়পক্ষের সংঘর্ষ বেধে যায়। এসময় হামলায় আটজন আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে নেয়ার পথে মারা যান বাবুল হোসেন।

সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা. মো. শামীমুল ইসলাম জানান, নিহত বাবুল হোসেনের মাথায় ধারালো কিছু দিয়ে আঘাত করা হয়েছে। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে হাসপাতালে আনার আগেই বাবুল হোসেন মারা যান। বাকিদের চিকিৎসা চলছে। তবে আহতদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশংকাজনক বলে জানান তিনি।

বেলকুচি থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আসলাম হোসেন বলেন, দুপক্ষের পূর্ব বিরোধ থেকেই মসজিদের ভেতরে সংঘর্ষের সূত্রপাত হয়েছে। সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। নিহত যুবকের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সিরাজগঞ্জ হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। এ ব্যাপরে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।


আরও খবর



জাতীয় মসজিদে ঈদ জামাতে মুসল্লিদের ঢল

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৩ মে ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৩ মে ২০২২ | ৪১৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে পবিত্র ঈদুল ফিতরের জামাতে মুসল্লিদের ঢল নেমেছে।মঙ্গলবার ফজরের নামাজের পর রাজধানীর বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মুসল্লিরা ঈদুল ফিতরের দুই রাকাত ওয়াজিব নামাজ পড়তে জাতীয় মসজিদে আসতে থাকেন। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বায়তুল মোকাররম ও এর আশপাশের এলাকা মুসল্লিদের পদচারণায় মুখর হয়ে ওঠে।

বায়তুল মোকাররমে ঈদের প্রথম জামাত সকাল ৭টায় শুরু হওয়ার কথা থাকলেও মসজিদে প্রবেশে সাড়ে ৬টার দিকেই মুসল্লিদের দীর্ঘ সারি দেখা গেছে। দক্ষিণ গেইট দিয়ে লাইন ধরে আর্চওয়ের ভেতর দিয়ে মুসল্লিরা মসজিদে প্রবেশ করেন।

দুই বছর পর বড় কোনো জামাতে অংশ নিয়ে নামাজ আদায়ের জন্য মুসুল্লিদের ছিল বিশেষ প্রস্তুতি। সবাই কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে নামাজ আদায় করেছেন।

মুসল্লিদের সারি মাওলানা ভাসানী হকি স্টেডিয়াম ছাড়িয়ে বঙ্গবন্ধু স্কয়ার পর্যন্ত চলে গেছে। প্রবেশ গেইটে বিপুল সংখ্যক আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে তৎপর দেখা গেছে।

বায়তুল মোকাররম মসজিদে ঈদুল ফিতরের ৫টি জামাত হচ্ছে। প্রথম জামাত শুরু হয় সকাল ৭টায়। এতে ইমাম ছিলেন বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম হাফেজ মুফতি মাওলানা মিজানুর রহমান।

প্রথম জামাত সকাল ৭ টা ২৭ মিনিটে শেষ হয়। প্রথম জামাত চলাকালীন বিপুল সংখ্যক মুসল্লি দক্ষিণ গেটের বাইরে রাস্তায় অপেক্ষা করতে থাকেন।

প্রথম জামাত শেষ হলে মুসল্লিরা দুটি আর্চওয়ে দিয়ে হুড়মুড় করে প্রবেশ করতে থাকেন। মুসল্লিদের চাপে আর্চওয়ের কিছু অংশ ভেঙে পড়ে। একপর্যায়ে আর্চওয়ে দুটি সরিয়ে দেওয়া হয়।

দ্বিতীয় জামাত শুরু হয় সকাল ৮টায়। তৃতীয় জামাত সকাল ৯টায়, চতুর্থ জামাত সকাল ১০টায়। পঞ্চম ও সর্বশেষ জামাত সকাল ১০টা ৪৫ মিনিটে অনুষ্ঠিত হবে।জামাতে নামাজ আদায়ের পর মুসল্লিদের মোসাফাহা ও কোলাকুলির মাধ্যমে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করতে দেখা গেছে।

বহুদিন পর বড় জামাতে নামাজ পড়তে পারায় মুসুল্লিদের মধ্যে বাড়তি উচ্ছ্বাস কাজ করেছে। আজ স্বাস্থ্যবিধি কিছুটা শিথিল ছিল। অনেকে মাস্ক ছাড়াই জামাতে অংশ নিয়েছেন।  


আরও খবর



চাঁদপুরে স্ত্রীকে জবাই করে পালালো স্বামী

প্রকাশিত:সোমবার ০৯ মে ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ০৯ মে ২০২২ | ৪৬৫জন দেখেছেন

Image

চাঁদপুর প্রতিনিধি:

চাঁদপুর সদর উপজেলার বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের মুন্সিরহাট এলাকায় রুপা বেগম (২৮) নামে স্বামী কর্তৃক স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যা করেছে ছেলের অভিযোগ। নারীর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার বেলা ১১টার দিকে ওই এলাকার দনপর্দ্দি গ্রামের মজিদ প্রদানিয়া বাড়ির নীচতলা থেকে মরদেহ উদ্ধার করে চাঁদপুর সদর মডেল থানা পুলিশ।

নিহত রুপা বেগম একই ইউনিয়নের ১নম্বর ওয়ার্ডের বাংলাবাজার এলাকার প্রধানিয়া বাড়ির নাছির দেওয়ানের স্ত্রী। তার দুই পুত্র সন্তান রয়েছে। ঘটনার পর থেকে ওই নারীর স্বামী নাছির দেওয়ান পলাতক রয়েছেন। রুপা বেগম এর পিতার বাড়ি সদর উপজেলার লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়নের কমলাপুর গ্রামে।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, নাছির দেওয়ান স্ত্রী সন্তান নিয়ে মজিদ প্রধানিয়ার বাড়িতে ভাড়া থাকেন। পেশায় রং মিস্ত্রি। রবিবার দিবাগত রাতের কোন এক সময় এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। স্থানীয়রা সংবাদ দিলে ঘটনাস্থলে পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে। কি কারণে এই ঘটনা কেউই এই মুহুর্তে বলতে পারছে না।

এদিকে, সংবাদ পেয়ে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি), পিবিআই ও পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।


আরও খবর



প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পাচ্ছেন স্বরূপকাঠির ১০৩ গৃহহীন পরিবার

প্রকাশিত:সোমবার ২৫ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ২৫ এপ্রিল ২০২২ | ৮৪০জন দেখেছেন
হযরত আলী হিরু, স্বরূপকাঠি

Image

প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার হিসেবে ৩য় পর্যায়ে ঘর পেতে যাচ্ছেন পিরোজপুরের স্বরূপকাঠির ১০৩ ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবার। এ উপলক্ষে সোমবার দুপুরে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের এ তথ্য নিশ্চিত করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মোশরেফ হোসেন।

তিনি জানান মঙ্গলবার (২৬ এপ্রিল) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এসব ঘর হস্তান্তর কার্যক্রমের উদ্বোধন করবেন ।

তিনি আরো জানান এ উপজেলায় ৩য় পর্যায়ে ১০৩ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের পুনর্বাসনে বরাদ্ধ পাওয়া গেছে। আগামীকাল  মঙ্গলবার ভূমিহীন- গৃহহীন পরিবারর মাঝে জমিসহ ঘর হস্তান্তর করা হবে।

উপজেলা প্রশাসন সুত্রে জানা গেছে, গৃহহীন মানুষের জন্য আশ্রয়ন ২ প্রকল্পের আওতায় ৩য় ধাপের নির্মিত ঘরগুলো আরও টেকসই ও মজবুত করে নির্মাণ করেছে সরকার। ফলে প্রতিটি ঘর নির্মাণে বাজেট বেড়েছে প্রায় ৭০ হাজার টাকা।

স্বরূপকাঠি উপজেলায় ৩য় পর্যায়ে ১০৩ ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবারের পুনর্বাসনে বরাদ্ধের মধ্যে সদর ইউনিয়নে ২৫, আটঘর কুড়িয়ানায় ১৭, গুয়ারেখা ১০, সমুদয়কাঠি ইউনিয়নে ৫১ টি ঘর বরাদ্ধ রয়েছে।

এর আগে এ উপজেলায় প্রথম পর্য়ায়ে ১২০ টি এবং দ্বিতীয় পর্যায়ে ২০৪ টি  ভূমিহীন-গৃহহীন পরিবার পুর্ণবাসনে জমির দলিলসহ ঘর হস্তান্তর করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে ইউএনও মো. মোশারেফ হোসেন সহ আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) তাপশ পাল, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মানষ কুমার দাস, উপজেলা সমাজ সেবা অফিসার তপন বিশ্বাস, উপজেলা সমবায় অফিসার কামরুল আহসানসহ স্বরূপকাঠি প্রেসক্লাবের সাংবাদিকবৃন্দ।


আরও খবর