আজঃ সোমবার ০৮ মার্চ ২০২১
শিরোনাম

নাজিরপুরে দুই যুবলীগ নেতার হাত-পা ভেঙ্গে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা

প্রকাশিত:বুধবার ২০ জানুয়ারী ২০21 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৬৬২জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পিরোজপুরের নাজিরপুরে মো. রনি হাওলাদার (২৮) ও মিজানুর রহমান মিঠু (৩২) নামের দুই যুবলীগ নেতার হাত-পা ভেঙ্গে দেয়া সহ মো. ফারুক হওলাদর (৩৫) নামের তিন যুবলীগ নেতাকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করেছে দুর্বৃত্তরা। 

ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারী) রাত সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার  শ্রীরামকাঠী ইউনিয়নের ভীমকাঠী এলাকায়। গুরুতর আহত রনি হাওলাদার ও মিজানুর রহমান মিঠুকে ওই রাতের সাড়ে ১২টার দিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতারে প্রেরণ করা হয়েছে।

আহত রনি হাওলাদার উপজেলার শ্রীরামাকাঠী  ইউনিয়নের বন্দরস্থ  মৃত জব্বার হাওলাদারের ছেলে ও ওই  ইউনিয়ন যুবলীগের সহ সভাপতি,  মিজানুর রহমান মিঠু একই এলাকার মৃত চুন্নু মিয়ার ছেলে ও ওই ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি এবং বন্দর ব্যবসায়ী সমিতির  সাধারণ সম্পাদক এবং মো. ফারুক হওলাদার উপজেলার শ্রীরামকাঠী ইউনিয়নের চলিশা গ্রামের মৃত বেলায়েত হোসেন হাওলাদরের ছেলে ও উপজেলা যুবলীগ সহ সভাপতি।

হামলায় আহত ফারুক হাওলাদার জানান, ওই  রাতে তারা ৩ জনে একটি মোটর সাইকেলে করে দলীয় কাজ সেরে নাজিরপুর থেকে শ্রীরামকাঠী বন্দরের দিকে যাচ্ছিলেন। এ সময়  শ্রীরামাকাঠী বন্দরের কাছাকাছি ভীমকাঠীর বালা বাড়ির কাছে পৌঁছলে মোটর সাইকেলের আলোতে দেখতে পান প্রধান সড়কের উপর গাছের গুড়ি ফেলা। সেখানে পৌঁছতেই রাস্তার দুপাশে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে থাকা উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের  যুগ্ম-আহবায়ক মো. আরিফুর রহমান সবুজ, স্থানীয় মহিউদ্দিন, এনামুল বেপারী, সাইফুল বেপারী, জনি হাওলাদার, বিপ্লব শেখ, লিয়ন, তুফান, অন্তু শেখের নেতৃত্বে প্রায় ২৫/৩০ সন্ত্রাসী দা, লোহার রড সহ দেশীয় অস্ত্র নিয়ে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে তাদের হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালায়।

থানা পুলিশের একটি সূত্র জানান, হামলাকারী ও আহতরা একই দলীয়। তবে স্থানীয় রাজনীতির কোন্দলের জের ধরে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ইশিতা সাধক নিপু জানান, হামলায় মিজানুর রহমান মিঠুর বাম হাত-পা ও ডান পা ভেঙ্গে গেছে। এ ছাড়া তার মাথায় ধারালো অস্ত্রের আঘাতে গুরুতর হাড় ভাঙ্গা জখম রয়েছে। রনির দু হাত-পা ভেঙ্গে গেছে। তার মাথায়ও ধারালো অস্ত্রের আঘাতে গুরুতর হাড়ভাঙ্গা জখম রয়েছে। তার নাক-মুখেও আঘাত রয়েছে। গুরুতর আহত দুজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

থানার অফিসার ইন চার্জ মো. আশ্রাফুজ্জামান জানান, ঘটনাটি শুনে ওই রাতে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) থান্দার খাইরুল ইসলাম সেখানে পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় এখনো মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।
Share

আরও খবর



সকলকে নিজের খাদ্য নিজে উৎপাদনের তাগিদ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৭০জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সরকারের প্রতিটি পদক্ষেপ দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের জন্য। একইসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, খাদ্যের সঙ্গে পুষ্টি ও স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিতে পরিকল্পনা অনুযায়ী কাজ করছে তাঁর সরকার। গণভবন থেকে জাতীয় নিরাপদ খাদ্য দিবসের অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাদের প্রতিটি পদক্ষেপই হচ্ছে বাংলাদেশের একেবারে প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করা। এবং সে পরিবর্তনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হলো সবার আগে খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করা।

এর পাশাপাশি পুষ্টির নিশ্চয়তা বিধান করার প্রয়োজনীতার কথাও উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, খাদ্যের সঙ্গে সঙ্গে পুষ্টির নিশ্চয়তাও একান্তভাবে প্রয়োজন।

আর, শুধু পুষ্টি নিরাপত্তাই নয়, এর সঙ্গে আমাদের স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিষয়টিও জড়িত। কাজেই সেদিকে লক্ষ্য রেখেই পরিকল্পিতভাবে আমরা কাজ করে যাচ্ছি, যোগ করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রী সকলকে নিজের খাদ্য নিজে উৎপাদনের তাগিদ দিয়ে বলেন, একটু জমিও যদি থাকে, তাতে নিজের ঘরের জন্য যা প্রয়োজনীয় সেটা চাষ করুন। তাহলে খাদ্য ঘাটতি কমবে। সকলের চেষ্টায় খাদ্যের উৎপাদন আরও বাড়াতে হবে।

সুষম খাবারের বিষয়ে নজর দেওয়ার নির্দেশ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, এখন মানুষের সামর্থ্য বেড়েছে। মানুষ এখন ভাতের পাশাপাশি কিছু আমিষও কেনে। এজন্য সুষম খাবারের দিকে নজর দিতে হবে। এর জন্য প্রচার বাড়াতে হবে। জনগণকে জানাতে হবে যে শিশুরা কী খাবে, বৃদ্ধরা কী খাবে আর একজন গর্ভধারিণী মা কখন কী খাবে।

Share

আরও খবর



এ পর্যন্ত ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে সাড়ে ১৮ লাখ মানুষকে

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৯১জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সারাদেশে গত ২৪ ঘণ্টায় মোট টিকা নিয়েছেন ২ লাখ ৬১ হাজার ৯৪৫ জন। তাদের মধ্যে মাত্র ২৭ জনের সামান্য পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া (যেমন: জ্বর, টিকা দেওয়া স্থানে লাল হাওয়া ইত্যাদি) দেখা গেছে।

এখন পর্যন্ত টিকা নিয়েছেন ১৮ লাখ ৪৮ হাজার ৩১৩ জন। তাদের মধ্যে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা গেছে মোট ৫৩৭ জনের।

বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) রাতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (এমআইএস) অধ্যাপক ডা. মিজানুর রহমান স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানান।

এতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় মোট টিকা নিয়েছেন ২ লাখ ৬১ হাজার ৯৪৫ জন। তাদের মধ্যে পুরুষ ১ লাখ ৬৪ হাজার ৯৩৬ জন ও নারী ৯৭ হাজার ৯ জন।

এর মধ্যে ঢাকা বিভাগে ৭৩ হাজার ৫১৪ জন, ময়মনসিংহে ১১ হাজার ৯০১ জন, চট্টগ্রামে ৫৪ হাজার ৭৮৮ জন, রাজশাহীতে ৩২ হাজার ২২৪ জন, রংপুরে ২৫ হাজার ৫৭৯ জন, খুলনায় ৩৪ হাজার ১৯৫ জন, বরিশালে ১৪ হাজার ৪৪৪ জন ও সিলেটে ১৫ হাজার ৩০০ জন টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছেন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোলরুমের তথ্যানুসারে, গত ২৭ জানুয়ারি দেশে টিকাদান কর্মসূচি শুরু হয়। প্রথম দিন টিকা দেওয়া হয় ২৬ জনকে। করোনা ভাইরাসের টিকাদান কার্যক্রমের দ্বিতীয় দিনে (২৮ জানুয়ারি) রাজধানীর পাঁচ হাসপাতালে মোট ৫৪১ ব্যক্তিকে টিকা দেওয়া হয়।

৭ ফেব্রুয়ারি সারাদেশে টিকা কার্যক্রম শুরু হয়। এ দিনে সারাদেশে টিকা নেন ৩১ হাজার ১৬০ জন। তাদের মধ্যে পুরুষ ২৩ হাজার ৮৫৭ জন ও নারী সাত হাজার ৩০৩ জন।

এর আগে স্বাস্থ্যঅধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম বলেন, রাজধানী ঢাকায় ৫০টি হাসপাতাল ও সারাদেশে ৯৫৫টি হাসপাতালসহ সারাদেশে মোট এক হাজার পাঁচটি হাসপাতালে টিকাদান কার্যক্রম চলবে। রাজধানী ঢাকায় ৫০টি হাসপাতালে ২০৪টি ও সারাদেশে ৯৫৫টি হাসপাতালে দুই হাজার ১৯৬টি টিম কাজ করবে। মোট এক হাজার পাঁচটি হাসপাতালে মোট ২ হাজার ৪০০টিম কাজ করবে।

এছাড়া ভ্যাকসিন বিষয়ক কার্যক্রমের জন্য প্রস্তুত রয়েছে সাত হাজার ৩৪৪টি টিম।

Share

আরও খবর
গুলি করে ইউপি সদস্যকে হত্যা

সোমবার ০৮ মার্চ ২০২১




পরিচ্ছন্ন নেত্রকোনা গড়তে জনসচেতনতামূলক র‌্যালি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ১২৩জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

নেত্রকোনা থেকে মোনায়েম খান

সুন্দর সবুজ পরিবেশ বান্ধব পরিচ্ছন্ন ও পরিকল্পিত নগরায়ন গড়ে তোলার লক্ষ্যে বৃহস্পতিবার নেত্রকোনায় সচেতনতামূলক র‌্যালি বের হয়। বেসরকারী স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন জনউদ্যোগ এ র‌্যালির আয়োজন করে। সকালে জেলা প্রশাসকের অফিসের সামনে র‌্যালি উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক কাজি মো. আবদুর রহমান।

জনউদ্যোগের ভারপ্রাপ্ত আহবায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা লেখক ও সাংবাদিক হায়দার জাহান চৌধুরীর সভাপতিত্বে র‌্যালি পূর্ব সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোরশেদা খাতুন, প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট হাবিবুর রহমান, প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট আব্দুল হান্নান রঞ্জন, জনউদ্যোগের ফেলো নেত্রকোনা জেলা প্রেসক্লাব সম্পাদক শ্যামলেন্দু পাল, উদীচী জেলা সংসদের সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান খান, নারী প্রগতি সংঘের ব্যবস্থাপক মৃনাল কান্তি চক্রবর্তী। র‌্যালিতে নানা শ্রেণি-পেশার লোকজন অংশ গ্রহণ করেন। র‌্যালিটি জেলা শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে প্রেসক্লাবে এসে শেষ হয়।

নিউজ ট্যাগ: নেত্রকোনা
Share

আরও খবর



মঙ্গলের বুকে অবতরণ করলো পারসেভারেন্স

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ১০৫জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
৬ চাকার এই স্বয়ংক্রিয় রোবট যানটি পৃথিবী থেকে তার ৪৭০ মিলিয়ন কিলোমিটার বা ৪৭ কোটি মাইল পথের যাত্রা শুরু করেছিল ৭ মাস আগে। অবশেষে আজ তার যাত্রার অবসান হলো

মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার মহাকাশযান পারসেভারেন্স দীর্ঘভ্রমণ শেষে অবশেষে মঙ্গলের বুকে অবতরণ করলো।

বাংলাদেশ সময় বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) দিনগত রাত ২টা ৫৫ মিনিটে পারসেভারেন্স মঙ্গলে অবতরণ করার সঙ্গে সঙ্গে লস অ্যাঞ্জেলসের জেট প্রপালসন ল্যাবরেটরিতে উল্লাসে মেতে ওঠেন বিজ্ঞানীরা।

বিবিসি জানিয়েছে, ৬ চাকার এই স্বয়ংক্রিয় রোবট যানটি পৃথিবী থেকে তার ৪৭০ মিলিয়ন কিলোমিটার বা ৪৭ কোটি মাইল পথের যাত্রা শুরু করেছিল ৭ মাস আগে। অবশেষে আজ তার যাত্রার অবসান হলো। জাজেরো নামে গভীর গর্তে (ক্র্যাটার) অবতরণ করে রোবট যান পারসেভারেন্স। সেখানে আগামী দুই বছর অবস্থান করে মঙ্গলে পাথর খননসহ অতীতে কোনো প্রাণের অস্তিত্ব ছিল কিনা তা খুঁজবে।

এর আগে, মঙ্গলগ্রহে নভোযান অবতরণের ১৪টি প্রচেষ্টা নেয়া হয়েছে। এর মধ্যে সফল হয়েছে ৮টি আর এর সবগুলোই ছিল যুক্তরাষ্ট্রের মিশন। তবে ১৯৯৯ সালে একবার নাসার মঙ্গল মিশন ব্যর্থ হয়েছিল। এবছর মঙ্গলে আরেকটি সফলতার পালক যুক্ত করলো নাসা।

Share

আরও খবর



তাজমহলে বোমাতঙ্ক, বের করে আনা হলো পর্যটকদের

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৪ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৪ মার্চ ২০২১ | ৭৩জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

তাজমহলে বৃহস্পতিবার সকালে হঠাৎ করে বোমাতঙ্কে পর্যটকদের বের করে আনা হয়েছে।

অজ্ঞাত পরিচয় এক ব্যক্তি ফোন করে পুলিশকে জানান, তাজমহলে বোমা রাখা রয়েছে। খবর পাওয়ার পরেই চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়। দ্রুত খালি করে দেওয়া হয় তাজমহল। বন্ধ করে দেওয়া হয় সব দরজা। এলাকা খালি করার কাজ করতে শুরু করে পুলিশ। খবর আনন্দবাজারের।

বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৭টার মধ্যে তাজমহলে পৌঁছে যান বিস্ফোরক বিশেষজ্ঞরা। তার পর গোটা এলাকা ঘিরে ফেলে তল্লাশি শুরু হয়।

সিআইএসএফ ও বিস্ফোরক বিশেষজ্ঞরা বিভিন্ন স্থানে সন্ধান চালান। পুলিশ জানিয়েছে, প্রথমে মনে করা হয়েছিল আলিগড় থেকে ফোন আসছে, পরে ফিরোজাবাদ থেকেও ফোন পাওয়ার কথা জানিয়েছেন পুলিশকর্মীরা।

দীর্ঘ ছয় মাস বন্ধ থাকার পর গত বছর সেপ্টেম্বরে পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়া হয় তাজমহল। করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে বন্ধ ছিল তাজমহলের দরজা।

তবে বেশ কিছু বিধিনিষেধ মেনেই এখনও তাজমহল দর্শন করতে হচ্ছে পর্যটকদের। দূরত্ববিধি বজায় রাখার পাশাপাশি আগত পর্যটকদের হাত স্যানিটাইজ করার দিকেও জোর দেওয়ার কথা জানিয়েছিলেন আর্কিওলজিক্যাল সার্ভে অব ইন্ডিয়ার (আগ্রা সার্কেল) সুপারিন্টেডেন্ট প্রত্নতত্ত্ববিদ বসন্ত কুমার স্বর্ণকার।

তিনি বলেছিলেন, তাজমহলে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক। পর্যটকদের অনলাইনে টিকিট কাটতে হবে।

Share

আরও খবর