আজঃ বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২
শিরোনাম
শিক্ষার্থীদের রাস্তায় নামার আশঙ্কা

নিউমার্কেটে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন

প্রকাশিত:বুধবার ২০ এপ্রিল ২০22 | হালনাগাদ:বুধবার ২০ এপ্রিল ২০22 | ১৮১০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে নিউমার্কেটের ব্যবসায়ীদের সংঘর্ষের ঘটনায় প্রতিবাদে সরব হচ্ছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) অধিভুক্ত সরকারি সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা। শিক্ষার্থীরা জানিয়েছেন, বৃষ্টির কারণে তারা রাস্তায় নামতে পারছেন না, বৃষ্টির পরে তারা রাস্তায় নেমে আন্দোলন করবেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় অধিভুক্ত সাত কলেজের মধ্যে ঢাকা কলেজ, ইডেন ও কবি নজরুল কলেজ ছাড়াও রয়েছে বদরুন্নেসা কলেজ, সোহরাওয়ার্দী কলেজ, মিরপুর বাঙলা কলেজ ও তিতুমীর কলেজ।

এদিকে পুলিশ বলছে, সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা যদি বিভিন্ন সড়কে বিক্ষোভে নামে তাহলে রাজধানীর অনেক সড়ক আটকে গেলে ভয়াবহ যানজট দেখা দেবে।

গতকাল মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) নিউমার্কেট এলাকায় ছাত্রদের সঙ্গে ব্যবসায়ীদের দিনভর সংঘর্ষের পর আজ বুধবার (২০ এপ্রিল) রাজধানীর বিভিন্ন এলাকার সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা রাস্তায় নামার আশঙ্কায় সতর্ক অবস্থানে রয়েছে পুলিশ।

এ দিকে নিউমার্কেটে সরেজমিনে দেখা গেছে, এই এলাকার আশেপাশে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। সকালে তারা নিরাপত্তার বিষয়ে‌ ব্রিফ করেছেন।

ঢাকা মহানগর পুলিশ কমিশনার মোহা. শফিকুল ইসলাম বলেন, সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভে নামতে পারে বলে আমাদের কাছে তথ্য আছে। এজন্য আমরা সকল প্রস্তুতি গ্রহণ করেছি।

তিনি বলেন, তবে বিভিন্ন কলেজ থেকে যদি ছাত্ররা রাস্তায় নেমে যায়, তখন তো আর নিয়ন্ত্রণে থাকে না। একটা কর্নার থেকে সে রকম চেষ্টা করা হচ্ছে, বিভিন্ন জায়গা নজরে রাখা হয়েছে।


আরও খবর



ইউক্রেনে স্কুলে বোমা হামলায় ৬০ জনের মৃত্যুর শঙ্কা

প্রকাশিত:রবিবার ০৮ মে ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৮ মে ২০২২ | ২৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইউক্রেনের একটি স্কুলে রাশিয়ার বিমান হামলায় ৬০ জন নিহত হওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে। দেশটির লুহানস্ক অঞ্চলের ওই স্কুলটিতে ৯০ জনের মতো বেসামরিক নাগরিক আশ্রয় নিয়েছিলেন। খবর ইয়াহু ও রয়টার্সের।

স্থানীয় সময় শনিবার ওই স্কুলে রাশিয়া বিমান হামলা চালায়। লুহানস্কের গভর্নর সেরহিয়ে গাইদাই রোববার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, ওই স্কুলে আশ্রয় নেওয়া ৩০ বেসামরিক নাগরিককে উদ্ধার করা হয়েছে। এদের মধ্যে সাতজন আহত হয়েছেন।

রোববার এক টেলিগ্রাম পোস্টে হাইদাই বলেন, ধ্বংসস্তূপের নিচ থেকে দুজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, ওই ভবনের ধ্বংসস্তূপের নিচে আটকেপড়া ৬০ জনই মারা গেছে। স্থানীয় সময় শনিবার বিলোহোরিভকা গ্রামের একটি স্কুলে বোমা হামলা চালায় রাশিয়া। ওয়াশিংটন ও ন্যাটো জোটের ইউরোপীয় সদস্যরা কিয়েভকে ভারি অস্ত্র সরবরাহ করছে, যাতে এটি রাশিয়ান আক্রমণ প্রতিহত করতে পারে।

এ পর্যন্ত বেশ কয়েকটি হামলা প্রতিহত করতে পেরেছে ইউক্রেন। ফলে পূর্ব এবং দক্ষিণ ইউক্রেনের কিছু অংশ রাশিয়া নিয়ন্ত্রণে নিলেও কিয়েভ দখলে ব্যর্থ হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।


আরও খবর



‘দাদাগিরি’র মঞ্চে জাহ্নবী, নাচলেন সৌরভের সঙ্গে

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১২ মে ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১২ মে ২০২২ | ৩৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ভারতীয় টেলিভিশন চ্যানেল জি বাংলার অন্যতম জনপ্রিয় রিয়ালিটি শো দাদাগিরি’। সঞ্চালনায় রয়েছেন ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রেসিডেন্ট সাবেক তারকা ক্রিকেটার সৌরভ গঙ্গুলি। প্রতি শনিবার এবং রবিবার রাতে জি বাংলার পর্দায় চোখ আটকায় অসংখ্য দর্শকের। রিয়ালিটি শো দাদাগিরি’ মানেই কোনো না কোনো বিশেষ চমক।

হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, সম্প্রতি জি বাংলার ইউটিউব চ্যানেলে আগামী পর্বের নতুন প্রোমো শেয়ার করা হয়েছে। আগামী ১৫ মে দাদাগিরি’র মঞ্চে হাজির হবেন বলিউড অভিনেত্রী জাহ্নবী কাপুর। দাদাগিরি’র এই বিশেষ পর্বে হাজির থাকবেন শ্রীদেবী কন্যা। সবুজ শাড়িতে দেখা যাবে তাকে। সৌরভ গঙ্গুলির সঙ্গে জাহ্নবীকে তার প্রথম ছবি ধড়ক’ এর গানে পা মেলাতে দেখা যাবে।

প্রমোতো দেখা যায়, সৌরভ গাঙ্গুলি মনে করিয়ে দেন এই মঞ্চে একসময় এসেছিলেন জাহ্নবীর বাবা তথা প্রযোজক বনি কাপুর। তার প্রয়াত মা তথা বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী শ্রীদেবীও একসময় এই মঞ্চে এসেছিলেন। এবার মেয়ে এসে পুরো চক্রটা পরিপূর্ণ করলেন।

তবে শ্রীদেবী কন্যা কী একটুও বাংলা বলতে পারেন? দাদার প্রশ্নের উত্তরে জাহ্নবী বলেন, আমি শুধুমাত্র একটা লাইন বলতে পারি, তাহলো তাড়াতাড়ি করো।’ সঙ্গে সঙ্গে সৌরভ গাঙ্গুলি হাসি হাসি মুখে বলে ওঠেন, এই লাইনটাই সবাই বলতে পারে।


আরও খবর



‘বঙ্গবন্ধু ব্রি-১০০’ ধান চাষে ঝুঁকছেন কচুয়ার কৃষক

প্রকাশিত:বুধবার ২০ এপ্রিল ২০22 | হালনাগাদ:বুধবার ২০ এপ্রিল ২০22 | ৪৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের নতুন আবিষ্কার বঙ্গবন্ধু ব্রি-১০০’ ধান এখন শোভা পাচ্ছে চাঁদপুরের কচুয়া উপজেলার বোরো ক্ষেতগুলোতে। কেউ ব্যক্তিগত আবার কেউ বীজ উৎপাদনের লক্ষ্যে এ ধানের আবাদ করেছেন। ভালো ফলনের আশায় এ ধানের আবাদ নিয়ে রঙিন স্বপ্ন চাষিদের চোখে। 

কৃষিবিভাগ ও বীজ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান বলছে, এতে রোগবালাই ও পোকামাকড় আক্রমণের পরিমাণ কম হওয়ায় অনেক কৃষকই ঝুঁকবেন এই ধান আবাদে।

কচুয়া উপজেলায় ২০২১-২০২২ অর্থবছরের রাজস্ব খাতের অর্থায়নে প্রদর্শনী বাস্তবায়নে পরীক্ষামূলক চাষাবাদ করার লক্ষ্যে হাশিমপুর গ্রামে কৃষক আব্দুস সালাম প্রায় ৩৩ শতক জমিতে এই ধান আবাদ করেছেন। ফলন ভালো হওয়ায় সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছে কৃষি অফিস। ওই ৩৩ শতক জমিতে বঙ্গবন্ধু ব্রি-১০০’ জাতের ধানের প্রদর্শনী প্লট করেছে উপজেলা কৃষিবিভাগ।

কৃষক মো. আব্দুস সালাম বলেন, এই ব্লকে কৃষিবিভাগ সার, বীজ ও কারিগরি সহায়তা দিয়ে আমাকে সহযোগিতা করছে। রোগবালাই ও পোকামাকড় আক্রমণের পরিমাণ কম হওয়ায় বঙ্গবন্ধু ব্রি-১০০ ধান আবাদে আগ্রহী হচ্ছেন অনেক কৃষক।  বঙ্গবন্ধু জাতের ধানের ফলন বিঘায় ৩০ থেকে ৩৪ মণ। এবার বীজ ও সার পেয়েছি। আশা আছে সামনের বার এ ধান চাষ আরও বেশি করে আবাদ করব।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার মো. জাহাঙ্গীর আলম লিটন বলেন, বঙ্গবন্ধু ১০০ ধানের জীবনকাল ১৪৮ দিন, যা ব্রি ধান-৭৪’র প্রায় সমান। গড় ফলন ৭ দশমিক ৭ টন প্রতি হেক্টর। উপযুক্ত পরিচর্যা পেলে অনুকূল পরিবেশে হেক্টর প্রতি ৮ দশমিক ৮ টন পর্যন্ত ফলন হয়ে থাকে। এ বছর কচুয়াতে পরীক্ষামূলক হাশিমপুর ব্লকে প্রায় ৩৩ শতাংশ জমিতে বঙ্গবন্ধু ধান ১০০-এর চাষাবাদ করা হয়েছে।

উপজেলার কৃষি কর্মকর্তা মো. সোফাফেল হোসেন বলেন, জিংক সমৃদ্ধ এই ধান মানবদেহে জিংকের অভাব পূরণে ব্যাপক ভূমিকা রাখবে বলে আশা করা যায়। চাল মাঝারি চিকন ও সাদা। জিংকের পরিমাণ প্রতি কেজিতে ২৫ দশমিক ৭ মিলিগ্রাম। চালে অ্যামাইলোজ ২৬ দশমিক ৮ শতাংশ এবং প্রোটিন ৭ দশমিক ৮ শতাংশ। অনেক চাষিরা তার কাছ থেকে আগামী বছর থেকেই বীজ সংগ্রহ করতে পারবেন। অনেক চাষি এরই মধ্যে বীজ নেওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন বলেও জানান এই কর্মকর্তা।


আরও খবর
যেসব কারণে ভেড়া পালন লাভজনক

মঙ্গলবার ১৭ মে ২০২২




আল আকসায় ফের ইসরায়েলের অভিযান, ৪২ ফিলিস্তিনি আহত

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৯ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৯ এপ্রিল ২০২২ | ৪২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

জেরুজালেমের পবিত্র আল-আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে আবারও সংঘর্ষের ঘটনায় কমপক্ষে ৪২ জন ফিলিস্তিনি আহত হয়েছেন। শুক্রবার (২৯ এপ্রিল) ফিলিস্তিনি রেড ক্রিসেন্টের বরাতে ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপি এ তথ্য জানিয়েছে। এর আগে ফিলিস্তিনি রেড ক্রিসেন্ট সংঘর্ষে ১২ জন আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছিল।

প্রতিবেদনে বলা হয়, আহতদের অধিকাংশের শরীরের উপরের অংশে আঘাত লেগেছে। পবিত্র রমজান মাসের শেষ জুমার নামাজকে সামনে রেখে বৃহস্পতিবার দিনগত রাতে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

ইসরায়েলি পুলিশ এক বিবৃতিতে দাবি করেছে, দাঙ্গাকারীরা পাথর ও পটকা নিক্ষেপের পরই নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা আল-আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে প্রবেশ করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ দাঙ্গাবিরোধী ব্যবস্থা প্রয়োগ করেছে বলেও উল্লেখ করা হয় বিবৃতিতে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও এএফপির প্রতিবেদকেরা জানিয়েছেন, পুলিশ কাঁদানে গ্যাস ও রাবার বুলেট ছুড়েছে। ফজরের নামাজের পর সংঘর্ষের মাত্রা কমে আসে বলেও জানান তারা। তবে ঘটনাস্থলে এখনও উত্তেজনা বিরাজ করছে।

মসজিদুল আকসা বা বায়তুল মুকাদ্দাস সারা বিশ্বের মুসলিমদের কাছে তৃতীয় পবিত্রতম স্থান। আর ইহুদিদের কাছে এটি টেম্পল মাউন্ট নামে খ্যাত। তারাও এটিকে তাদের অন্যতম পবিত্র স্থান হিসেবে বিবেচনা করে থাকে।

সম্প্রতি সেখানে প্রায়ই সংঘর্ষ হচ্ছে। গত দুই সপ্তাহে পবিত্র আলআকসা প্রাঙ্গণে সংঘর্ষের ঘটনায় ২৫০ জনের বেশি ফিলিস্তিনি আহত হয়েছেন। আশঙ্কা করা হচ্ছে, গত বছর আলআকসার অস্থিরতাকে কেন্দ্র করে ইসরায়েলি বাহিনী ও হামাসের মধ্যে ১১ দিনব্যাপী যে যুদ্ধ হয়েছিল, একই রকমের একটি যুদ্ধ বেঁধে যেতে পারে।


আরও খবর



ঈদে সাবিলা নূরের ডিগবাজি

প্রকাশিত:শনিবার ২৩ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ২৩ এপ্রিল ২০২২ | ৩৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

নিতুকে বিয়ে দিতে চাইছে তার পরিবার। কিন্তু সে বিয়ে করতে প্রস্তুত নন। কারণ সে ওয়ার্ল্ড ট্রাভেলার হবে, বিয়ে করে রান্নাঘরে খুন্তি-কড়াই নিয়ে ঠুকঠাক করার ইচ্ছে তার নেই। এমন এক ব্যতিক্রমী নারী চরিত্র নিয়ে নির্মাণ হলো ঈদের বিশেষ নাটক ডিগবাজি

সিএমভির ব্যানারে নাটকটি রচনা ও নির্মাণ করেছেন জাকারিয়া সৌখিন। নাটকটিতে নিতু চরিত্রে অভিনয় করেছেন সাবিলা নূর। তার বিপরীতে আবীর চরিত্রে অভিনয় করেছেন জিয়াউল ফারুক অপূর্ব। নাটকের গল্প প্রসঙ্গে নির্মাতা জানান, এক পর্যায়ে আবীরের সঙ্গে বিয়ে ঠিক হয় নিতুর। মজার তথ্য হলো- আবীর নিজেও এখনই বিয়ে করার পক্ষে নন! বাবা-মায়ের চাপেই তিনি পাত্রী নিতুকে দেখতে যান।

নির্মাতা সৌখিন বলেন, অবশেষে দুই পরিবারই তাদের বিয়ে দিতে সম্মত হয়। এতে বিপাকে পড়ে যায় বিয়ে করতে না চাওয়া নিতু ও আবীর। শুরু হয় বিয়ে ভাঙার নিজ নিজ প্ল্যান! একটা সময় নিতু তার পরিবারের কাছে প্রমাণ করে- আবীরের চরিত্র ভালো না! নাটকে মোড় নেয় নতুন চমক। বাকিটা দেখার আমন্ত্রণ জানালাম সবাইকে।

প্রযোজক এসকে সাহেদ আলী পাপ্পু জানান, ঈদে ডিগবাজি উন্মুক্ত হচ্ছে সিএমভির ইউটিউব চ্যানেলে।

নিউজ ট্যাগ: সাবিলা নূর

আরও খবর