আজঃ সোমবার ০৮ মার্চ ২০২১
শিরোনাম

নিয়োগ দেবে সোপিরেট, বেতন ১৭ হাজার টাকা

প্রকাশিত:শনিবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ১৬৭জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে সোপিরেট। সংস্থাটিতে এমআরএ সনদপ্রাপ্ত ও পিকেএসএফের সহযোগী প্রতিষ্ঠান হিসেবে পরিচালিত ক্ষুদ্রঋণ কর্মসূচির (মাইক্রোক্রেডিট) জন্য উল্লেখিত পদে সংস্থার কর্মএলাকায় গ্রামীণ জনগোষ্ঠীর সঙ্গে কাজ করতে আগ্রহী প্রার্থীদের জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। প্রতিষ্ঠানটিতে ফিল্ড অফিসার’ পদে নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহী প্রার্থীরা আবেদন করতে পারবেন।

পদের নাম: ফিল্ড অফিসার।

পদসংখ্যা: এই পদে সর্বমোট ৩০ জনকে নিয়োগ দেওয়া হবে।

যোগ্যতা

প্রার্থীকে স্নাতক/স্নাতকোত্তর পাস হতে হবে। পুরুষ প্রর্থীরা আবেদন করতে পারবেন। ক্ষুদ্রঋণ কর্মসূচিতে পিকেএসএফের সহযোগী সংস্থায় ন্যূনতম এক বছরের বাস্তব অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। প্রার্থীদের কম্পিউটার বিষয়ে পারদর্শী হতে হবে। বাইসাইকেল চালানোয় দক্ষ ও নিজস্ব বাইসাইকেল থাকতে হবে। চাকরিতে যোগদানের সময় উক্ত পদের বিপরীতে উল্লেখিত বেতনের সমপরিমাণ টাকা জামানত হিসেবে (ফেরতযোগ্য) জমা দিতে হবে। অনূর্ধ্ব ৩৫ বছর বয়স পর্যন্ত আবেদন করা যাবে।

কর্মস্থল: কুমিল্লা, চাঁদপুর, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, ফেনী।

বেতন: ১৫,০০০-১৭,০০০/ (মাসিক) প্রশিক্ষণকালীন এক মাস সাত হাজার টাকা হারে ভাতা প্রদান করা হবে। প্রশিক্ষণকাল শেষে যোগ্যতা সাপেক্ষে প্রকৃত বেতন নির্ধারিত হবে।


কোম্পানির সুযোগ-সুবিধাদি

মোবাইল বিল প্রদান করা হবে। কর্মএলাকায় বিনা খরচে একক আবাসন সুবিধা দেওয়া হবে। উৎসাহ ভাতা, বৈশাখী ভাতা ও সংস্থার নিয়মানুযায়ী অন্যান্য সুবিধা প্রদান করা হবে। শিক্ষানবিশকাল শেষে মূল্যায়নের ভিত্তিতে সংস্থার নির্ধারিত বেতন কাঠামো অনুযায়ী সব সুবিধা (বার্ষিক ইনক্রিমেন্ট, বার্ষিক দুটি উৎসব ভাতা, কন্ট্রিবিউটরি প্রভিডেন্ট ফান্ড এবং গ্র্যাচুইটি) প্রদান করা হবে।

আবেদনের প্রক্রিয়া

আগ্রহী প্রার্থীদের ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ তারিখ বিকেল ৫টার মধ্যে নির্বাহী পরিচালক বরাবর স্বহস্তে লিখিত আবেদনপত্রের সঙ্গে পূর্ণ জীবনবৃত্তান্ত, সদ্য তোলা দুই কপি পাসপোর্ট সাইজ ছবি ও প্রয়োজনীয় কাগজপত্রাদিসহ (সব শিক্ষাগত যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতার সনদ, জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি) সোপিরেটের প্রকল্প প্রধান কার্যালয়; শেখ রাসেল সড়ক, সমসেরাবাদ, লক্ষ্মীপুর-৩৭০০—এই ঠিকানায় সরাসরি/ডাক/কুরিয়ারযোগে প্রেরণের জন্য আহ্বান করা যাচ্ছে। খামের ওপরে পদের নাম উল্লেখ করতে হবে। শুধু বাছাইকৃত প্রার্থীদের মোবাইল/এসএমএস/ই-মেইলের মাধ্যমে পরীক্ষার জন্য ডাকা হবে।পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য কোনো প্রকার টিএ/ডিএ প্রদান করা হবে না।

যেকোনো ধরনের সুপারিশ প্রার্থীর অযোগ্যতা বলে গণ্য হবে। ইতোপূর্বে দায়িত্ব পালনে অনিয়ম করেছেন, নারী ও শিশু নির্যাতনের অভিযোগে অভিযুক্ত এমন প্রার্থীদের আবেদন করার প্রয়োজন নেই।

আবেদনের শেষ তারিখ: ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১।

নিউজ ট্যাগ: সোপিরেট
Share

আরও খবর



তদন্ত সাপেক্ষে জিয়ার খেতাব বাতিল করা হবে: মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী

প্রকাশিত:শনিবার ০৬ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ০৬ মার্চ ২০২১ | ৭৫জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বঙ্গবন্ধুর হত্যার সঙ্গে যদি জিয়াউর রহমানের সম্পৃক্ততা পাওয়া যায়, তারপর তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক।

তিনি বলেন, জিয়ার খেতাব বাতিল করা হয়নি। যারা বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত বা সাজাপ্রাপ্ত খুনি তাদের খেতাব বাতিলের বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়েছে।

শনিবার (৬ মার্চ) এক অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী বলেন, এ বিষয়ে কমিটি তদন্ত করছে। তদন্ত করার পর জাতির সামনে তথ্য-উপাত্ত উপস্থাপন করা হবে।

এর আগে বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের মদদদাতা উল্লেখ করে সাবেক রাষ্ট্রপতি ও বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের মুক্তিযুদ্ধে অবদানের খেতাব বীর উত্তম বাতিলের সিদ্ধান্ত নেয় জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল (জামুকা)। স্বাধীনতার প্রায় ৫০ বছর পর জিয়াউর রহমানের খেতাব বাতিল হলে তাদের সব রাষ্ট্রীয় সুযোগ-সুবিধাও বাতিল হবে।

পাশাপাশি মুক্তিযুদ্ধে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখায় স্মরণীয় ব্যক্তিদের তালিকা থেকে খন্দকার মোশতাকের নামও বাদ পড়বে। একই সঙ্গে বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনি শরিফুল হক ডালিম, নূর চৌধুরী, রাশেদ চৌধুরী ও মোসলেহ উদ্দিনের রাষ্ট্রীয় খেতাবও বাতিলের সুপারিশ করা হয়।

গত ৯ ফেব্রুয়ারি রাজধানীর স্কাউট ভবনে আয়োজিত দিনব্যাপী জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের (জামুকা) ৭২তম সভায় এসব সিদ্ধান্ত হয়।

Share

আরও খবর
ঢাবিতে ভর্তির আবেদন শুরু

সোমবার ০৮ মার্চ ২০২১




বিশ্ববিদ্যালয়ের ফটকের সামনে মহাসড়ক অবরোধ করেছেন শিক্ষার্থীরা

প্রকাশিত:শনিবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০21 | হালনাগাদ:শনিবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০21 | ১০৯জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দ্বিতীয় দফায় ১৩ ঘণ্টার আল্টিমেটাম শেষে ফের বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়ক অবরোধ করেছেন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের (ববি) শিক্ষার্থীরা।

অবরোধের কারণে আজ শনিবার সকা‌লে ভোগান্তিতে পড়েছেন বরিশাল, ভোলা, পটুয়াখালী, বরগুনা, পায়রা বন্দর ও কুয়াকাটাগামী যাত্রীরা। এর আগে গতকাল শুক্রবার রাতে রনি ও ফিরোজ নামের দুই পরিবহণ শ্রমিককে গ্রেপ্তার করে কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশ। গত মঙ্গলবার রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার ঘটনায় এঁরা জড়িত ছিলেন বলে জানিয়েছেন কোতয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নুরুল ইসলাম। তবে আন্দোলনকারীরা বলছেন, এই গ্রেপ্তারের ব্যাপারে তাঁরা অবগত নন। শিক্ষার্থীরা তাঁদের তিন দফা দাবি আদায়ে আন্দোলন করছেন এবং দাবি পূরণ হলেই তাঁরা আন্দোলন প্রত্যাহার করবেন বলে জানান।

কুয়াশাচ্ছন্ন আবহাওয়ার মধ্যে আজ সকাল সা‌ড়ে ৯টার কিছু সময় পর বিশ্ববিদ্যালয়ের ফটকের সামনে বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ শুরু করেন শিক্ষার্থীরা। এতে করে সড়কের দুপাশে আটকা পড়েছে কয়েকশ যানবাহন। চরম দুর্ভোগে পড়েছে যাত্রীরা।

ব‌রিশাল বিশ্ববিদ্যাশল‌য়ের শিক্ষার্থী‌দের আন্দোল‌নের অন্য‌তম নেতা মাহামুদুল হাসান তমাল বলেনন, প্রশাসন অনেকটা গা ছাড়া ভাব দে‌খি‌য়ে‌ছে সে জন্য আমা‌দের মৌ‌লিক অধিকারের জায়গা থে‌কে আন্দোলন কর‌তে হ‌চ্ছে। আর সড়ক অব‌রো‌ধের কার‌ণে জনগ‌ণের যে ভোগা‌ন্তি হ‌চ্ছে তার জন্য দুঃখ প্রকাশ কর‌ছি, ত‌বে এ ছাড়া আমা‌দের কিছু করার নেই।

আন্দোলনকারীরা অভিযোগ করেন, গত মঙ্গলবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) মধ্যরাতে তাঁদের ওপর হামলার ঘটনা ঘ‌টে। প‌রে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে আহতেরা হামলাকারীদের নামের তালিকা দিলেও প্রশাসন তাঁদের বিরুদ্ধে মামলা না করে অজ্ঞাতদের আসামি করে থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়। আবার সে অভি‌যো‌গে ঘটনার স‌ঠিক বিবরণ না দি‌য়ে শুধু জখ‌মের কথা উল্লেখ করা হয়। যা শিক্ষার্থীরা প্রত্যাখ্যান করেছেন এবং দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেন।

Share

আরও খবর



চোরাচালানের ১৫ মণ স্বর্ণ ও হীরা জব্দে অভিযোগপত্র দাখিল

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০২ মার্চ 2০২1 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০২ মার্চ 2০২1 | ৯৭জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

অবৈধভাবে স্বর্ণালঙ্কার মজুদের অভিযোগ করা মামলায় আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার হোসেন সেলিমের বিরুদ্ধে অভিযাগ করা মামলায় অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়েছে। অভিযোগপত্রে লেখা শুল্ক ও কর ফাঁকি দিয়ে চোরাচালানের মাধ্যমে দীর্ঘদিন যাবৎ আপন জুয়েলার্সের মালিক স্বর্ণালঙ্কার মজুদ করে রাখেন।

আজ মঙ্গলবার (০২ মার্চ) আদালতের সংশ্লিষ্ট শাখা থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা দেলোয়ার হোসেন রমনা থানায় মানি লন্ডারিং আইনে করা মামলায় অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়। গত ২৩ ফেব্রুয়ারি মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের সংশ্লিষ্ট সাধারণ নিবন্ধন (জিআর) শাখায় এ অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

প্রসঙ্গত, অবৈধভাবে আপন জুয়েলার্সে প্রায় ১৫ মণ স্বর্ণ জব্দ করে শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তর। রাজধানীতে আপন জুয়েলার্সের পাঁচটি শাখায় ২০১৭ সালের ১২ আগস্ট একযোগে স্বর্ণ ও হীরা জব্দ। বৈধ কাগজপত্র আপন জুয়েলার্সের মালিক দেখাতে না পারায় তা জব্দের সিদ্ধান্ত নেয় শুল্ক গোয়েন্দা বিভাগ। মূল্যবান ধাতু কর নথিতে অপ্রদর্শিত ও গোপন রাখার দায়ে আপন জুয়েলার্সের বিরুদ্ধে মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইনে পাঁচটি মামলা করে শুল্ক গোয়েন্দা। তার মধ্যে গুলশান থানায় দুটি, ধানমন্ডি থানায় একটি, উত্তরা থানায় একটি ও রমনা থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।

শুল্ক গোয়েন্দারা আপন জুয়েলার্সের গুলশান ডিসিসি মার্কেট, গুলশান এভিনিউ, উত্তরা, সীমান্ত স্কয়ার ও মৌচাকের ৫টি শোরুমে অভিযান চালিয়ে প্রায় ১৫ মণ স্বর্ণ ও ৪২৭ গ্রাম হীরা জব্দ করে। এসব স্বর্ণ ও হীরার ব্যাপারে তাৎক্ষণিকভাবে কোনও ব্যাখ্যা দিতে পারেনি আপন জুয়েলার্সের মালিকপক্ষ। পরে আইনানুগভাবে প্রতিষ্ঠানের জিম্মায় দেওয়া হয়। এরপর আত্মপক্ষ সমর্থনে আপন জুয়েলার্স কর্তৃপক্ষকে ৩ বার শুনানির সুযোগ দিলেও তারা এসব সোনা-হীরার কোনও প্রকার বৈধ কাগজ দেখাতে পারেনি। তবে আপন জুয়েলার্সের মালিকপক্ষের দেওয়া ১৮২ জনের তালিকার মধ্যে ৮৫ জন প্রকৃত গ্রাহককে মেরামতের জন্য জমা রাখা প্রায় ২.৩ কেজি স্বর্ণালঙ্কার অক্ষত অবস্থায় ফেরত দেওয়া হয়।

নিউজ ট্যাগ: আপন জুয়েলার্স
Share

আরও খবর



অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে অচল মিয়ানমার

প্রকাশিত:সোমবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ৮৯জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মিয়ানমারে সামরিক জান্তাদের হুমকির পরেও অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে। এরই মধ্যে সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) দেশটিতে সাধারণ ধর্মঘটে ব্যবসা-বাণিজ্য সব বন্ধ হয়ে গেছে। স্থানীয় দোকানগুলো বন্ধ রয়েছে। পাশাপাশি আন্তর্জাতিক চেইনগুলোও সোমবার ঘোষণা দিয়েছে, নিজেদের ব্যবসা বন্ধ রাখবে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, অভ্যুত্থানকারীদের একই সঙ্গে অং সান সু চির মুক্তি দাবিতে সাধারণ ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন বিক্ষোভকারীরা। কর্তৃপক্ষের হুমকি এড়িয়ে হাজার হাজার মানুষ রাস্তায় নেমেছেন। এ থেকে যে কোনো সময় আরও প্রাণহানি হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বিক্ষোভ ঠেকাতে মিয়ানমারের নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে শনিবার দুই বিক্ষোভকারী নিহত হয়েছেন। এ নিয়ে বিক্ষোভে তিনজন নিহত আছেন। তবে একজন পুলিশ সদস্যও বিক্ষোভে আহত হয়ে মারা গেছেন বলে জানিয়েছে সেনাবাহিনী।

এদিকে শনিবার দুজনের মৃত্যুও বিক্ষোভকারীদের পেছনে ফেরাতে পারেনি। এ দিন ইয়াঙ্গুনে যেমন তারা জড়ো হয়েছিলেন, তার চেয়ে আরও বেশি জড়ো হয়েছেন রোববার। সোমবার এর চেয়েও বেশি মানুষ অংশ নিয়েছেন ওই বিক্ষোভে।

নিউজ ট্যাগ: অচল মিয়ানমার
Share

আরও খবর



চিরকুট লিখে সাত বারের এমপির ‘আত্মহত্যা’

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২১ | ১০৩১জন দেখেছেন
Share
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মুম্বাইয়ের একটি হোটেল থেকে দাদরা ও নগর হাভেলির ৭ বারের সংসদ সদস্য (এমপি) মোহন দেলকরের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিক ভাবে পুলিশের সন্দেহ, আত্মহত্যা করেছেন ৫৮ বছর বয়সী এ স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য।

ভারতীয় গণমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমসের খবরে বলা হয়েছে, মুম্বাইয়ের অভিজাত মেরিন ড্রাইভে একটি সি ফেসিং হোটেলে উঠেছিলেন এ প্রভাবশালী এমপি। সেখান থেকেই সোমবার বিকেলে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। গুজরাতি ভাষায় লেখা একটি সুইসাইড নোটও পাওয়া গেছে সেখানে। তবে ময়নাতদন্তের পরই মৃত্যুর কারণ নিশ্চিতভাবে বলা যাবে বলে পুলিশের সূত্রে জানানো হয়েছে। দেলকরের স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে।

আদিবাসীদের অধিকারের জন্য আজীবন কাজ করেছেন তিনি। প্রথম দিকে ছিলেন ট্রেড ইউনিয়ন নেতা। ১৯৮৯ সালে প্রথমবার কংগ্রেসের টিকিটে লোকসভায় আসেন তিনি। ২০০৪ সাল পর্যন্ত টানা পেয়েছেন জনতার আশীর্বাদ। তবে এরপর হেরে যান ২০০৯ ও ২০১৪ সালে। কিন্তু গত ২০১৯ সালে ফের জয়ী হন মোহন দেলকর। নিজের প্রতিষ্ঠিত ভারতীয় নবশক্তি পার্টিক টিকিটে জয়যুক্ত হন তিনি। মাঝে তিনবার কংগ্রেস ও তিনবার বিজেপির টিকিটে জিতেছিলেন এ বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ।

নিউজ ট্যাগ: আত্মহত্যা
Share

আরও খবর