আজঃ মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০21
শিরোনাম

নড়াইলে বনি হত্যা মামলায় ২৬ জনের যাবজ্জীবন

প্রকাশিত:বুধবার ৩১ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ৩১ মার্চ ২০২১ | ৮৮জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
গ্রাম্য শত্রুতা ও মামলা মোকদ্দমার কারণে খুন করা হয় কালিয়া উপজেলার পারবিঞ্চুপুর গ্রামের মো. হাসিম মোল্লার ছেলে বনি মোল্লাকে। ২০১৯ সালের ১১ মে বনি বাড়ির পাশের

নড়াইলের কালিয়া উপজেলার বনি মোল্লা হত্যা মামলায় ২৬ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বুধবার (৩১ মার্চ) দুপুরে খুলনা দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. নজরুল ইসলাম হাওলাদার এ রায় ঘোষণা করেন। এ মামলায় ৪ জনকে খালাস দেয়া হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আহাদুজ্জামান।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন, আলম শেখ (৩৯), মফিজ বিশ্বাস (৪০), আ. সালাম শেখ (৪২), শরিফুল খাঁ (৪৪), মামুন খান (৩৯), সোহেল শিকদার (২৭), আশিক শিকদার (৩৩), সবুজ শেখ (২২), সবুজ মোল্যা (৩২), খালিদ মোল্যা (২৬), খোকন মোল্যা (৫৫), কিবরিয়া মোল্যা (৫০), সাদি শেখ (১৮), আহাদুল শেখ (২৩), ইমদাদ শেখ (২৭), শরিফুল মোল্যা (৫৩), বাপ্পি শেখ (পলাতক) (৩৪), সুফিয়ান খাঁ (৪৩), আশরাফুল খাঁ (৩৭), আনোয়ার মোল্যা (৪৫), রুনজু মোল্যা (৩৮), দুলাল খাঁ (৫০), শিপলু খান ওরফে পিকুল খাঁন (২৩), উজ্জ্বল তালুকদার (৩৭), আশিক মোল্যা (২৩) ও মো. আজাদ শেখ (৩৭)।

খালাসপ্রাপ্তরা হলেন, বাবু মোল্যা (২৭), রকিবুল মোল্যা (৩৫), মো. মিলন শেখ (৩৮) ও সেলিম মোল্যা (৫২)। এদের সকলের বাড়ি নড়াইলের কালিয়া উপজেলায়।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, গ্রাম্য শত্রুতা ও মামলা মোকদ্দমার কারণে খুন করা হয় কালিয়া উপজেলার পারবিঞ্চুপুর গ্রামের মো. হাসিম মোল্লার ছেলে বনি মোল্লাকে। ২০১৯ সালের ১১ মে বনি বাড়ির পাশের একটি ঘেরে অবস্থান করছিলেন। সকাল সাড়ে ৮টার দিকে সন্ত্রাসীরা দেশীয় ধারালো অস্ত্র নিয়ে তার ওপর হামলা চালায়। প্রাণ বাঁচাতে তিনি দৌড়ে প্রতিবেশী ছাকু কাজীর বাড়িতে আশ্রয় নেন।

সন্ত্রাসীরা ওই বাড়ি থেকে তাকে বের করে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে। ওই ঘটনার পর বনি মোল্লার বাড়ির লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। পরে অবস্থার অবনতি হলে তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। এই ঘটনার দুইদিন পর নিহতের বাবা বাদী হয়ে ৩২ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার তদন্ত চলাকালে আরও দুজনের নাম অন্তর্ভুক্ত করা হয়।

নিউজ ট্যাগ: নড়াইল

আরও খবর
নড়াইলে স্কুলছাত্রীকে দলবেঁধে ধর্ষণ, আটক ৫

শুক্রবার ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২১




হেফাজতকে প্রতিরোধে কার্যকর আইন আছে: আইনমন্ত্রী

প্রকাশিত:শনিবার ১০ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১০ এপ্রিল ২০২১ | ১১২জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
আবারও স্পষ্টভাবে বলতে চাই, কেউ যদি দেশে অরাজকতা, জনগণের সম্পদ বা জানমালের ক্ষতি করার চেষ্টা করেন, এই সরকার তাদের বিরুদ্ধে অত্যন্ত কঠোর ব্যবস্থা নিবে। আমাদেরকে, জননেত্রী শেখ হাসিনাকে

হেফাজতে ইসলামকে প্রতিরোধের জন্য কার্যকর আইন আছে বলে জানিয়েছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। শনিবার (১০ এপ্রিল) দুপরে রাজধানীর কুর্মিটোলায় আর্মড ফোর্সেস মেডিক্যাল কলেজে করোনা ভাইরাসের (কোভিড-১৯) কোভিড-১৯ গ্রহন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এমন কথা জানান।

আইনমন্ত্রী বলেন, দেশে অরাজকতা, জনগণের সম্পদ বা জানমালের ক্ষতি করার চেষ্টা করলে সরকার তাদের (হেফাজতে ইসলামের) বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নিবে।

তিনি আরও বলেন, আবারও স্পষ্টভাবে বলতে চাই, কেউ যদি দেশে অরাজকতা, জনগণের সম্পদ বা জানমালের ক্ষতি করার চেষ্টা করেন, এই সরকার তাদের বিরুদ্ধে অত্যন্ত কঠোর ব্যবস্থা নিবে। আমাদেরকে, জননেত্রী শেখ হাসিনাকে ভোট দিয়ে সেবা করার দায়িত্ব দিয়েছেন জনগণ। সেখানে যদি কেউ ব্যঘাত ঘটনোর চেষ্টা করে অবশ্যই আইনানুগভাবে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

টিকা নেওয়ার প্রতিক্রিয়ায় আইনমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, প্রথম এবং দ্বিতীয় ডোজের মধ্যে আমি কোনো পার্থক্য দেখিনি। আমি ধন্যবাদ জানাই যারা আমাকে ইনজেকশনটা দিয়েছেন। কারণ আমি কোনো ব্যথা বোধ করিনি। আগেও আপনাদের একথা বলেছি যে, ইনজেকশন নেওয়ার ব্যাপারে আমার এলার্জি আছে। আমি খুব ভয় পাই। দুবারই আমি অত্যন্ত স্বাচ্ছ্যন্দে এই ইনজেকশনটা নিতে পেরেছি। সেজন্য কর্তৃপক্ষকে আমি ধন্যবাদ জানাই।

আইনমন্ত্রী বলেন, করোনা ভাইরাস সারাবিশ্বে ভয়াবহভাবে বেড়ে যাচ্ছে। দ্বিতীয় ডোজ নিলে আমি মনে করি অন্ততপক্ষে আক্রান্তটা কমে যাবে। দ্বিতীয় ডোজ দেওয়ার সক্ষমতা আমাদের রয়েছে। আমি সবাইকে অনুরোধ করবো দ্বিতীয় ডোজ নিয়ে নেওয়ার জন্য।


আরও খবর
হেফাজতের ২৩ মামলা তদন্তে সিআইডি

মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০21




শুক্রবার গ্যাস থাকবে না যেসব এলাকায়

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৫ এপ্রিল ২০২১ | ৭৪জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয় নারায়ণগঞ্জের হরিপুরে ভালভ প্রতিস্থাপনের কাজ করবে গ্যাস সঞ্চালন কোম্পানি জিটিসিএল ও বিতরণ কোম্পানি তিতাস গ্যাস

নারায়ণগঞ্জ ও মুন্সিগঞ্জের বড় একটি অংশে আগামী শুক্রবার (১৬ এপ্রিল) টানা সাড়ে ৭ ঘণ্টা গ্যাস থাকবে না। এদিন রক্ষণাবেক্ষণ কাজের জন্য ভোর থেকে সাড়ে ৭ ঘণ্টার জন্য গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকবে। এ সময়ে গ্যাসের চাপ কম থাকবে ঢাকার বেশকিছু এলাকায়।

বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের উপ-প্রধান তথ্য অফিসার মীর মোহাম্মদ আসলাম উদ্দিনের পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয় নারায়ণগঞ্জের হরিপুরে ভালভ প্রতিস্থাপনের কাজ করবে গ্যাস সঞ্চালন কোম্পানি জিটিসিএল ও বিতরণ কোম্পানি তিতাস গ্যাস। আর এ কারণে শুক্রবার ভোর সাড়ে ৪টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত নারায়ণগঞ্জ ও মুন্সিগঞ্জের বড় একটি এলাকায় গ্যাস সরবরাহ করতে পারবে না তিতাস গ্যাস।

এ সময় শীতলক্ষ্যা নদীর পশ্চিম পাশে নারায়ণগঞ্জ শহর, সিদ্ধিরগঞ্জ, আদমজী ইপিজেড, গোদনাইল, পাগলা, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ বিসিক, পঞ্চবটি থেকে মুক্তারপুর পর্যন্ত, মুন্সিগঞ্জ সদর, মুন্সিগঞ্জ বিসিক, রেকাবী বাজার ও আশেপাশের এলাকায় সব শ্রেণির গ্রাহকদের গ্যাস সরবরাহ বন্ধ থাকবে। আর শীতলক্ষ্যা নদীর পূর্ব পাশে গ্যাস থাকবে না কাঁচপুর, হরিপুর, কুতুবপুর, মদনপুর, বন্দর, কেওডালা, নাঙ্গলবন্দ ও আশেপাশের এলাকায়। ঢাকার কেরানীগঞ্জ ও শ্যামপুর এলাকায় গ্যাসের চাপ কম থাকবে।

এদিকে গ্রাহকদের 'সাময়িক অসুবিধার' জন্য 'আন্তরিকভাবে' দুঃখ প্রকাশ করেছে ঢাকা ও আশেপাশের এলাকায় গ্যাস বিতরণ প্রতিষ্ঠান তিতাস গ্যাস কোম্পানি।

নিউজ ট্যাগ: নারায়ণগঞ্জ

আরও খবর



রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড

প্রকাশিত:সোমবার ২২ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২২ মার্চ ২০২১ | ১৩৬জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

কক্সবাজারের উখিয়ার বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। দুই ঘণ্টা পেরিয়ে গেলেও এখনও পর্যন্ত আগুন নিয়ন্ত্রণে আসেনি। তবে ফায়ার সার্ভিসের ৪টি ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে।

সোমবার (২২ মার্চ) বিকেল তিনটার দিকে বালুখালী ক্যাম্পে এ আগুনের সূত্রপাত হয়।

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের উখিয়া স্টেশন, রামু স্টেশন ও কক্সবাজার স্টেশনের চারটি ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে বলে নিশ্চিত করেছেন ক্যাম্প ইনচার্জ মোহাম্মদ তানজীম।

এদিকে অতিরিক্ত শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মো. সামছু-দ্দৌজা বলেন, উখিয়ার বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্পে দুপুরে আগুনের সূত্রপাত হয়েছে। আগুন এখনও জ্বলছে। তবে আগুন নেভানোর জন্য ফায়ার সার্ভিস, উখিয়া পুলিশ, এপিবিএন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সবাইকে জানানো হয়েছে।

দ্রুত আগুন নেভানোর জন্য সবাই একযোগে কাজ করছে। এখনও পর্যন্ত কি পরিমাণ রোহিঙ্গাদের বসতি ক্ষতি হয়েছে তা জানা যায়নি।


আরও খবর



হালালভাবে জবাই নিষিদ্ধ করলো ফ্রান্স

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৩ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৩ মার্চ ২০২১ | ১০৪জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
ফ্রান্সের কৃষি ও খাদ্য মন্ত্রণালয়ের প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, আগামী জুলাই থেকে পোল্ট্রি প্রাণী হালাল পন্থায় জবাই নিষিদ্ধ হবে। এটা ইসলাম ধর্মের সুস্পষ্ট নীতির লঙ্ঘন বলে নিজেদের উদ্বেগের কথা জানিয়েছে

ধর্মীয় নিয়ম মেনে পোল্ট্রি প্রাণি (হাঁস-মুরগি) হালাল পন্থায় জবাই নিষিদ্ধ করেছে ফ্রান্স। দেশটির কর্তৃপক্ষের এমন নিষেধাজ্ঞায় তীব্র নিন্দা জানিয়েছে ফ্রান্সের মুসলিম নেতৃবৃন্দ। ফরাসি সরকারের এমন সিদ্ধান্তের ফলে ইসলামী নিয়ম অনুযায়ী জবাইকৃত প্রাণীর হালাল মাংস সরবরাহ বন্ধ হয়ে যাবে।

সরকারের এমন নিষেধাজ্ঞার পর প্যারিসের মসজিদ পরিচালক চেমসেদিন হাফিজ, লিঁও মসজিদ পরিচালক কামেল কাপটান ও এভরি মসজিদের পরিচালক খলিল মারুন বিবৃতি দিয়েছেন। তাদের বিবৃতিতে বলা হয়, ফ্রান্সের কৃষি ও খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সাম্প্রতিক প্রজ্ঞাপন দেশটির মুসলিম জনগোষ্ঠীর জন্য নেতিবাচক বার্তা বহন করে।

ফ্রান্সের কৃষি ও খাদ্য মন্ত্রণালয়ের প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, আগামী জুলাই থেকে পোল্ট্রি প্রাণী হালাল পন্থায় জবাই নিষিদ্ধ হবে। এটা ইসলাম ধর্মের সুস্পষ্ট নীতির লঙ্ঘন বলে নিজেদের উদ্বেগের কথা জানিয়েছে ফ্রান্সে মুসলিম কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ।

উল্লেখ্য, বেলজিয়াম ও ফ্রান্সসহ ইউরোপের বেশ কয়েকটি দেশ হালাল মাংসের বিরুদ্ধে বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছে। ইউরোপের কিছু প্রাণী অধিকার গ্রুপের মতে, ধর্মীয় নীতিতে জবাইয়ের ক্ষেত্রে ইসলামী হালাল নীতি ও ইহুদিদের কোশের নিয়ম তুলনামূলক কম মানবিক।


আরও খবর



আজকের রাশিফল: জেনে নিন কেমন কাটবে দিন

প্রকাশিত:শনিবার ০৩ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ০৩ এপ্রিল ২০২১ | ৮৪জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পুরনো জ্যোতিষশাস্ত্রের এমন একটি ধরন, যার মাধ্যমে বিভিন্ন সময়কাল নিয়ে ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়। যেমন দৈনিক রাশিফল প্রতিদিনের ঘটনার ভবিষ্যকথন করে, তেমন সাপ্তাহিক, মাসিক তথা বার্ষিক রাশিফল যথাক্রমে সপ্তাহ, মাস এবং বছরের ভবিষ্যদ্বাণী করে। বৈদিক জ্যোতিষে ১২টি রাশি- মেষ, বৃষ, মিথুন, কর্কট, সিংহ, কন্যা, তুলা, বৃশ্চিক, ধনু, মকর, কুম্ভ ও মীন-এর ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়। একই রকমভাবে ২৩টি নক্ষত্রেরও ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়ে থাকে।

মেষ:

বিদেশ থেকে শুভ সংবাদ পেতে পারেন। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা পাবেন। ব্যবসায় চাপ থাকলেও লাভবান হবেন। পারিবারিক জীবনকে আনন্দে পরিপূর্ণ রাখুন।

বৃষ:

প্রত্যাশা পূরণে অন্যের সহযোগিতা পাবেন। প্রিয়জনের অসুস্থতায় চিন্তিত থাকতে পারেন। কিছুটা ব্যয়াধিক্য থাকতে পারে। মানসিক চাপ থাকলেও কর্ম ও আর্থিক ক্ষেত্র আশার আলো দেখাবে।

মিথুন:

কোনো ইতিবাচক সংবাদে উত্ফুল্ল হবেন। সামাজিক যোগাযোগ বাড়বে। প্রেম-প্রণয় আমেজহীন। ব্যবসায় কিছু পরিবর্তনের কথা ভাবতে পারেন। পারিবারিক শান্তি বজায় রাখুন।

কর্কট:

কিছুটা মানসিক চাপ থাকলেও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনায় অন্যের সহযোগিতা পাবেন। দক্ষ ব্যবস্থাপনার প্রয়োজন। অন্যকে প্রভাবিত করে কাজের অগ্রগতি হবে। মনকে প্রফুল্ল রাখুন।

সিংহ:

আপনার উদ্যোগে বৈষয়িকভাবে লাভবান হওয়ার সুযোগ পাবেন। বিনোদনমূলক কাজে আনন্দ পাবেন। বিপর্যয় মোকাবেলায় আগাম পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে। রোমান্স শুভ।

কন্যা:

সামাজিক যোগাযোগ বাড়বে। সম্পত্তি কেনাবেচার শুভ সময়। রাজনৈতিক ও সামাজিক কর্মকাণ্ডে অনুকূল অবস্থা বিরাজ করবে। স্ববিরোধী কোনো কাজে হাত দেবেন না।

তুলা:

সঠিক প্রচেষ্টায় কাজের উন্নতি। কোনো যোগাযোগে লাভবান হতে পারেন। ভ্রাতৃস্থানীয় কোনো ব্যক্তির সহযোগিতা পাবেন। আপনার দ্বারা যে কাজ সম্ভব নয় সেদিকে যাবেন না।

বৃশ্চিক:

পুরনো সমস্যা কাটিয়ে উঠতে পারবেন। কোনো গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তনের কথা মাথায় আসবে। পরিকল্পনা বাস্তবায়নে অন্যকে প্রভাবিত করতে পারবেন। আর্থিক ক্ষেত্র শুভ। শরীরের যত্ন নেবেন।

ধনু:

নতুন যোগাযোগ উৎসাহিত করবে। ব্যবসায় জটিলতা কাটিয়ে ওঠার ভালো সময়। অতীত অভিজ্ঞতা কাজে লাগবে। প্রভাবশালীদের আনুকূল্য পাওয়া যেতে পারে। মন ভালো রাখুন।

মকর:

লক্ষণীয় কোনো পরিবর্তন ঘটবে না। আয় বাড়লেও ব্যয়চাপ কমবে না। প্রেম-প্রণয় শুভ। স্বজন বিষয়ে উদ্বেগ। শরীর ভালো থাকলেও যত্নের প্রয়োজন। লক্ষ্যে স্থির থাকুন। আনন্দে থাকুন।

কুম্ভ:

কর্মে উন্নতির যোগ আছে। মানসিক চাপ কিছুটা কমবে। আয়ের পরিধি বাড়বে। বন্ধুর সাহায্য পাবেন। অবসাদে ভুগলেও দিনের শেষে উত্ফুল্ল থাকবেন। মনকে নিয়ন্ত্রণে রাখুন।

মীন:

কোনো যোগাযোগে আর্থিক উন্নতির সম্ভাবনা। দাম্পত্য জীবন শুভ। কর্মক্ষেত্রের পরিবেশ অনুকূলে থাকবে। যেকোনো কাজে দক্ষতার পরিচয় দিতে পারবেন। ধৈর্য না হারালে ভালো থাকবেন।


আরও খবর
যেভাবে বানাবেন শসার স্মুদি

সোমবার ১৯ এপ্রিল ২০২১