আজঃ সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

পাসের হার কমেছে, অর্ধেকে নেমেছে জিপিএ-৫

প্রকাশিত:রবিবার ২৬ নভেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:রবিবার ২৬ নভেম্বর ২০২৩ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষায় এবার পাসের হার কমেছে। জিপিএ-৫ নেমে এসেছে প্রায় অর্ধেকে। এবার দেশের ১১টি শিক্ষা বোর্ডে পরীক্ষায় অংশ নেওয়া সাড়ে ১৩ লাখের বেশি শিক্ষার্থীর মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৯২ হাজার ৩৬৫ জন।

গত বছর অর্থাৎ ২০২২ সালে জিপিএ-৫ পাওয়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল ১ লাখ ৭৬ হাজার ২৮২ জন। সেই হিসাবে এ বছর জিপিএ-৫ পাওয়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা কমেছে ৮৩ হাজার ৯১৭ জন।

রোববার (২৬ নভেম্বর) বেলা ১১টায় ওয়েবসাইট ও নিজ নিজ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ফল প্রকাশ করা হয়।

এবার পাসের হারও কিছুটা কমেছে। গতবার পাসের হার ছিলো ৮৫ দশমিক ৯৫ শতাংশ। এবার এইচএসসি ও সমমানে সব বোর্ডে পাসের হার ৭৮ দশমিক ৬৪ শতাংশ।

এর আগে এর আগে সকাল ১০টার দিকে বিভিন্ন শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যানরা প্রধানমন্ত্রীর কাছে ফলের সারসংক্ষেপ হস্তান্তর করেন। পরে আনুষ্ঠানিকভাবে ফল ঘোষণা করা হয়।

গণভবনে আয়োজিত ফলপ্রকাশ অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি, শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুন>> এইচএসসিতে গড় পাসের হার ৭৮.৬৪ শতাংশ

ফল প্রকাশের পর শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে (www.educationboardresults.gov.bd) এবং এসএমএসের মাধ্যমে ফল জানা যাবে। এ ছাড়া পরীক্ষা কেন্দ্র ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকেও ফল সংগ্রহ করা যাবে।

ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, বোর্ডগুলোর সমন্বিত ওয়েবসাইটে (www.educationboardresults.gov.bd) ঢুকে পরীক্ষার্থীর রোল ও রেজিস্ট্রেশন নম্বর টাইপ করতে হবে। এরপর পরীক্ষার্থীর ফল পাওয়া যাবে। শিক্ষার্থীরা ওয়েবসাইটের রেজাল্ট কর্নারে ক্লিক করে ফলাফল ডাউনলোড করতে পারবে।

মোবাইল ফোনে এসএমএসের মাধ্যমেও ফল জানতে HSC লিখে স্পেস দিয়ে শিক্ষা বোর্ডের নামের প্রথম তিন অক্ষর লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে ২০২৩ লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠাতে হবে। ফিরতি এসএমএসে ফল জানা যাবে।

একইভাবে আলিমের ফল পেতে ALIM লিখে স্পেস দিয়ে Mad লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে ২০২৩ লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠাতে হবে।

আর কারিগরি বোর্ডের ক্ষেত্রে HSC লিখে স্পেস দিয়ে Tec লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে ২০২৩ লিখে ১৬২২২ নম্বরে পাঠালে ফিরতি এসএমএসে ফলাফল জানানো হবে।


আরও খবর



এসএসসি পরীক্ষা সামনে রেখে ডিএমপির ১৮টি সুপারিশ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

আগামী ১৫ ফেব্রুয়ারি থেকে সারাদেশে শুরু হচ্ছে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষা। এ সময় পরীক্ষার্থীদের কেন্দ্রে যাওয়া সহজ করতে ১৮টি সুপারিশ করেছে ডিএমপি ট্রাফিক বিভাগ।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে মিডিয়া সেন্টারে এ সুপারিশের কথা জানান ডিএমপির ট্রাফিকের অতিরিক্ত কমিশনার মুনিবুর রহমান।

তিনি বলেন, পরীক্ষার্থীদের কেন্দ্রে যাওয়া সহজ করতে ট্রাফিকের কুইক রেসপন্স টিম কাজ করবে। পাশাপাশি প্রতিটি কেন্দ্রের আশপাশে একাধিক ভ্রাম্যমাণ টিম কাজ করবে। কেন্দ্রের আশপাশের সড়কে হকার থাকতে দেয়া হবে না বলেও জানান এই কর্মকর্তা।

ঢাকা মহানগরীতে ১২২টি কেন্দ্র আছে জানিয়ে অতিরিক্ত কমিশনার পরীক্ষা কেন্দ্রের পাশের সড়কে অযাচিত হর্ন না বাজাতে অনুরোধ করেন।

গড়ে প্রতিদিন শতাধিক ব্যাটারিচালিত রিকশার ডাম্পিং করা হচ্ছে জানিয়ে পুলিশের এই কর্মকর্তা আরও বলেন, অবৈধ যেকোনো বাহনের বিরুদ্ধে ট্রাফিক বিভাগ প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে।

এ বছর এসএসসি, দাখিল, এসএসসি (ভোকেশনাল) ও দাখিল (ভোকেশনাল) পরীক্ষায় ২৯ হাজার ৭৩৫টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ৩ হাজার ৭০০টি কেন্দ্রে ২০ লাখ ২৪ হাজার ১৯২ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে।


আরও খবর



ক্যানসারের ভ্যাকসিন তৈরির দ্বারপ্রান্তে রাশিয়া : পুতিন

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

রাশিয়া ক্যানসারের ভ্যাকসিন তৈরির দ্বারপ্রান্তে বলে জানিয়েছেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। তিনি বলেছেন রোগীরা শিগগিরই এই ভ্যাকসিন পেতে পারেন। বৃহস্পতিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) এই তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

গণমাধ্যমটি বলছে, রাশিয়ান বিজ্ঞানীরা ক্যানসারের ভ্যাকসিন তৈরির কাছাকাছি রয়েছেন এবং এটি শিগগিরই রোগীদের জন্য সহজলভ্য হতে পারে বলে জানিয়েছেন পুতিন। তার কথায়, আমরা নতুন প্রজন্মের তথাকথিত ক্যানসার ভ্যাকসিন এবং ইমিউনোমোডুলেটরি ওষুধ তৈরির খুব কাছাকাছি চলে এসেছি

ভবিষ্যতের প্রযুক্তির ওপর আয়োজিত মস্কো ফোরামে ভাষণ দেয়ার সময় রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট আরও বলেন, আমি আশা করি, শিগগিরই এই টিকা কার্যকরভাবে রোগীদের চিকিৎসা থেরাপির পদ্ধতি হিসাবে ব্যবহার করা হবে। তবে প্রস্তাবিত ভ্যাকসিনগুলো ঠিক কোন ধরনের ক্যানসার লক্ষ্য করে চিকিৎসার কাজ করবে বা কীভাবে হবে সে বিষয়ে বিস্তারিত কোনো বক্তব্য দেননি পুতিন।

রয়টার্স বলছে, বিশ্বের অনেক দেশ ও কোম্পানি ক্যানসারের ভ্যাকসিন নিয়ে কাজ করছে। গত বছর যুক্তরাজ্য সরকার ব্যক্তিগত ক্যানসার চিকিৎসা প্রদান করতে ক্লিনিকাল ট্রায়াল চালু করার জন্য জার্মান-ভিত্তিক বায়োএনটেকের সঙ্গে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করেছে। দেশটি এই কাজে ২০৩০ সালের মধ্যে ১০ হাজার রোগীর কাছে পৌঁছানোর লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে।

এছাড়া ফার্মাসিউটিক্যাল কোম্পানি মডার্না এবং মেরর্ক অ্যান্ড কোম্পানিও একটি পরীক্ষামূলক ক্যান্সারের ভ্যাকসিন তৈরি করছে। এই টিকার কার্যকারিতা সম্পর্কে মধ্য-পর্যায়ের এক গবেষণায় দেখা গেছে, মেলানোমায় আক্রান্ত রোগীদের তিন বছরের চিকিৎসার পর ফের এই রোগের পুনরাবৃত্তি বা মৃত্যুর সম্ভাবনা অর্ধেক কমে গেছে। মূলত মেলানোমা হচ্ছে সবচেয়ে মারাত্মক ত্বকের ক্যানসার।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, হিউম্যান প্যাপিলোমাভাইরাস (এইচপিভি)-এর বিরুদ্ধে বর্তমানে ছয়টি লাইসেন্সপ্রাপ্ত ভ্যাকসিন রয়েছে। এইচপিভি জরায়ুমুখের ক্যান্সারসহ অনেক ধরনের ক্যানসার সৃষ্টি করে। একইসঙ্গে হেপাটাইটিস বি (এইচবিভি)-এর বিরুদ্ধেও ভ্যাকসিন রয়েছে যা লিভার ক্যানসার সৃষ্টি করতে পারে।


আরও খবর



ইরাক-সিরিয়ায় ইরানের স্থাপনায় হামলার অনুমোদন

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | হালনাগাদ:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

ইরাক ও সিরিয়ায় ইরানি স্থাপনাসহ একাধিক লক্ষ্যবস্তুতে হামলার অনুমোদন দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। মার্কিন কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে বৃহস্পতিবার (০১ ফেব্রুয়ারি) সিবিএস নিউজ এ তথ্য জানিয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন মঙ্গলবার বলেছিলেন, তিনি এই সপ্তাহে সিরিয়ার সীমান্তের কাছে জর্ডানের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে একটি ড্রোন হামলার প্রতিক্রিয়া জানানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। সেই হামলায় তিন মার্কিন সেনা সদস্য নিহত এবং ৪০ জনেরও বেশি আহত হয়। যুক্তরাষ্ট্র ড্রোন হামলার জন্য ইরানকে দায়ী করেছে মদদপুষ্ট যোদ্ধাদের।

বাইডেনের শীর্ষ কূটনীতিক ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিনকেন সোমবার বলেছিলেন, মার্কিন প্রতিক্রিয়া বহু-স্তরের হতে পারে, পর্যায়ক্রমে আসতে পারে এবং সময়ের সঙ্গে টিকে থাকতে পারে।

সিবিএস তাদের প্রতিবেদনে হামলার জন্য সময়রেখার পরিপ্রেক্ষিতে মার্কিন অনুমোদনের অর্থ কী সে সম্পর্কে বিশদ বিবরণ দেয়নি।

অক্টোবরে ইসরায়েল-গাজা যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর ড্রোন হামলাটি মার্কিন বাহিনীর বিরুদ্ধে প্রথম প্রাণঘাতী হামলা ছিল এবং মধ্যপ্রাচ্যকে ঘিরে চলতে থাকা উত্তেজনা বৃদ্ধিকে চিহ্নিত করেছে।

বৃহত্তর যুদ্ধের সূত্রপাত না করে কিভাবে ইরান সমর্থিত মিলিশিয়াদের শাস্তি দেওয়া যায় তা মার্কিন কর্মকর্তাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ।


আরও খবর



মিয়ানমার সীমান্তরক্ষীদের সমুদ্রপথে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া সীমান্তরক্ষীদের দেশে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সেহেলী সাবরিন। বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) মন্ত্রণালয়ের সাপ্তাহিক মিডিয়া ব্রিফিংয়ে তিনি এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে মিয়ানমারের সেনাদের গভীর সমুদ্র দিয়ে ফেরত পাঠানো হবে। এর আগে বুধবার (৭ ফেব্রুয়ারি) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেনের সভাপতিত্বে মিয়ানমারের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে এক আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

বৈঠক সূত্র জানায়, মিয়ানমার তাদের বাহিনীর লোকদের নাফ নদ হয়ে ফিরিয়ে নিতে চেয়েছিল। তাতে আপত্তি জানায় বাংলাদেশ। কারণ নাফ নদ দিয়ে ফেরত পাঠানোর সময় আরাকান আর্মি যদি কোনো হামলা চালায়, আর তাতে যদি কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটে, তাহলে তার দায় বাংলাদেশকেও নিতে হবে। বিকল্প পরিস্থিতি বিবেচনায় নিয়ে বাংলাদেশ তাদের আকাশপথে ফেরত পাঠানোর বিকল্প প্রস্তাব দিয়েছিল। কিন্তু মিয়ানমার সে প্রস্তাবে রাজি হয়নি। তাই এখন সমুদ্রপথে তাদের ফেরত পাঠানো হবে বলে আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, আরাকান আর্মিসহ বিদ্রোহী গোষ্ঠীর হামলার মুখে নতুন করে মিয়ানমার সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিপির সামরিক কমান্ডারসহ ৬৪ জন টেকনাফের হোয়াইক্ষ্যং সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে ঢুকেছে। এ নিয়ে বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছেন ৩২৮ জন মিয়ানমারের নাগরিক।


আরও খবর
জানুয়ারিতে সড়ক দুর্ঘটনায় ৪৮৬ মৃত্যু

রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




সাকিবের ব্যাটে ছক্কার ফুলঝুরি, ঢাকার টার্গেট ১৭৬

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
ক্রীড়া প্রতিবেদক

Image

বিপিএল শুরুর আগে থেকেই চোখের সমস্যায় ভুগছিলেন সাকিব আল হাসান। বিপিএল খেলার সময় আরও ভালোভাবে টের পান সমস্যা। তাইতো শুরুর এক ম্যাচ খেলেই উড়াল দিয়েছিলেন সিঙ্গাপুরে। সেখানে চিকিৎসা শেষে বিপিএলে ফিরেও ব্যাটে রান পাচ্ছিলেন না তিনি। অবশেষে সাকিবের ব্যাটে দেখা গেল ছক্কার ফুলঝুরি।

মঙ্গলবার (০৬ ফেব্রুয়ারি) দুর্দান্ত ঢাকার বিপক্ষে ৩টি ছক্কা হাঁকান রংপুর রাইডার্সের অলরাউন্ডার সাকিব। ২০ বলে করেন ঝোড়ো ৩৪ রান। তাতে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৭৫ রানের বড় সংগ্রহ গড়ে রংপুর।

মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে টস জিতে এদিন রংপুরকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় ঢাকা। শুরু থেকেই ঢাকার বোলারদের ওপের আক্রমণ চালান রনি তালুকদার। আরেক ওপেনার বাবর খেলেন আস্তেধীরে। ওপেনিংয়ে দুজনে গড়েন ৬৭ রানের জুটি। মাত্র ৭ ওভার ৪ বলেই এই রান করে রংপুর। এই রানের মাথায় ২৪ বলে ৩৯ রান করে ফেরেন রনি। ৬টি চার ও ১ ছক্কায় নিজের ইনিংস সাজান তিনি।

এরপরই মাঠে নামেন সাকিব। বাবর আজমের সঙ্গে গড়েন ৫২ রানের জুটি। যেখানে একাই সাকিবের অবদান ৩৪ রান। ১১৯ রানে বাবর (৪৩ বলে ৪৭) ফিরলে ভাঙে এই জুটি। দ্রুতই আউট হয়ে যান সাকিব ও আজমাতুল্লাহ ওমারজাই।

ম্যাচের শেষদিকে দারুণ ব্যাটিং করেন অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান ও মোহাম্মদ নবি। শেষ ২২ বলে ৪৪ রান তোলে এই জুটি। শেষ পর্যন্ত সোহান ১০ বলে ১৬ ও নবি ১৬ বলে ২৯ রানে অপরাজিত ছিলেন।


আরও খবর