আজঃ শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১
শিরোনাম

পিরোজপুর ১ ঘন্টার জন্য অতিরিক্ত জেলা প্রশাসকের দায়িত্ব পালন করলেন ডিকে দিব্যা মনি

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | ৪৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পিরোজপুর জেলায় ১ ঘন্টার জন্য প্রতীকী অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক)র দায়িত্ব পালন করলেন ডিকে দিব্যা মনি ।

জাতীয় কন্যা শিশু দিবস উপলক্ষে কন্যাশিশুর ক্ষমতায়নের প্রতীক হিসেবে সোমবার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সার্বিক পিরোজপুর জেলা এর দায়িত্ব ১ ঘন্টার জন্য টেকওভার করেছে ডিকে দিব্যা মনি এসময়।

এ অনুষ্ঠানে জেলার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক চৌধুরী রওশন ইসলাম তার আসনে প্রতীকী    অতিরিক্ত জেলা প্রশাসকের দায়িত্ব দেন পিরোজপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণির শিক্ষার্থী জেলা এনসিটিএফ এর চাইল্ড পার্লামেন্ট মেম্বর ডিকে দিব্যা মনি কে।

অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সকলের উদ্দেশ্যে বক্তব্য দেন। অনুষ্ঠানে সাময়িক দায়িত্বপ্রাপ্ত অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ডিকে দিব্যা মনি পিরোজপুরের সকল শিশুদের অধিকার নিশ্চিত করার জন্য সুপারিশমালা পেশ করেন, এবং সেগুলো বাস্তবায়ন করার জন্য দাবি জানান।এছাড়া তিনি পিরোজপুরকে বাল্যবিবাহ মুক্ত পিরোজপুর গড়ে তোলার জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করেছেন।

নিউজ ট্যাগ: জেলা প্রশাসক

আরও খবর



রাণীশংকৈলে গাছে বেঁধে জামাইকে নির্যাতন, শ্বাশুড়ি আটক

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৮৩৫জন দেখেছেন
Image

রাণীশংকৈল(ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি:

শ্বশুরবাড়িতে স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে গেলে এক যুবককে গাছে বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে শ্বশুর-শাশুড়ির চাচা শ্বশুরের বিরুদ্ধে। গত সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) ঠাকুরগাঁও জেলার রাণীশংকৈল উপজেলার ভাংবাড়ি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

প্রেম করে বিয়ে করার অপরাধে মধ্যযুগীয় কায়দায় গাছে বেঁধে জামাই নাসিরুলকে (২২) নির্যাতনের ঘটনায় শাশুড়ি শিরিনা আক্তারকে আটক করেছেন পুলিশ। শুক্রবার (২৪ সেপ্টেম্বর) সকালে তাকে আটক করে রাণীশংকৈল থানা পুলিশ। নির্যাতনের সেই ভিডিও ইতোমধ্যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। নাসিরুল ওই এলাকার খলিলুর ইসলামের ছেলে।

এলাকাবাসী জানায়, একই এলাকার করিমুলের মেয়ের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে ওই যুবকের। দীর্ঘদিন সম্পর্কে থাকার পর তারা বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন। এক পর্যায়ে পরিবারকে না জানিয়ে তারা বিয়ে করে আত্মগোপনে থাকেন।

শুক্রবার (২৪ সেপ্টেম্বর) সকালে সরেজমিনে ঘটনাস্থলে গেলে স্থানীয়রা জানায়, খলিলুর রহমানের ছেলের সাথে একই এলাকার করিমুলের মেয়ের প্রেমের সর্ম্পক গড়ে উঠে। প্রেম থেকে তারা পরিবারের অগোচরে বিয়ে করে গত ৯ সেপ্টেম্বর ঠাকুরগাঁও নোটারী পাবলিকের মাধ্যমে বিয়ের হলফনামা গ্রহণ করে।

পরে তারা দুজনই  ঢাকায় চলে যান। পরে বিষয়টি জানাজানি হলে ছেলে ও মেয়ের পরিবারের সম্মতিতে স্থানীয়ভাবে সমাধানের কথা বলে ছেলে মেয়েকে বাড়িতে আসার ব্যবস্থা করা হয়। নাসিরুলের চাচা দবিরুল বলেন, আমি সহ ছেলে ও মেয়েকে ঢাকা থেকে নিয়ে আসি।

এদিকে মেয়ের পরিবার থেকে ছেলের পরিবারকে মেয়েকে ফিরিয়ে দিতে চাপ প্রয়োগ করতে থাকে। বিয়ে মেনে নেওয়ার প্রতিশ্রুতিও দেয়। মেয়ের পরিবার প্রভাবশালী হওয়ায় ছেলের পরিবার ভীত হয় এবং ছেলেকে ফিরে আসার আকুতি জানায়। মেনে নেওয়ার প্রতিশ্রুতি পেয়ে ছেলেও মেয়েকে পরিবারের কাছে দিয়ে আসে।

পরে সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) বিকেলে স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে তার বাসায় যান ওই যুবক। তখনই মেয়ের বাবা-মা চাচা তাকে গাছের সঙ্গে বেঁধে অমানবিক নির্যাতন করতে থাকেন। ওই যুবক চিৎকার করে কেঁদে কেঁদে ছেড়ে দেওয়ার আকুতি জানান, বারবার ক্ষমা চান। তবুও তাকে মারধর করতে থাকে মেয়ের পরিবার। শেষে পুলিশ গিয়ে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে যুবককে।

নির্যাতনের শিকার যুবক ঐ গ্রামের খলিলুর রহমানের ছেলে নাসিরুল ইসলাম(২৬)। সে ও তার ভাই কুদ্দুস বর্তমানে দিনাজপুর আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজে গুরুত্বর অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ বিষয়ে রাণীশংকৈল থানা পরিদর্শক (ওসি) এস.এম জাহিদ ইকবাল বলেন, ভিডিও তে ভাইরাল হওয়া নির্যাতনকারী শ্বাশুড়ি শিরিনা আক্তারকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান ওসি।


আরও খবর



কাবুলে মসজিদের কাছে শক্তিশালী বিস্ফোরণ

প্রকাশিত:রবিবার ০৩ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৩ অক্টোবর ২০২১ | ৪৭০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলে একটি মসজিদের বাইরে শক্তিশালী বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এতে বেশ কয়েকজন বেসামরিক নাগরিক প্রাণ হারিয়েছেন। রবিবার (৩ অক্টোবর) আফগান তালেবান এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। হতাহতের সংখ্যা বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

তালেবান মুখপাত্র জানিয়েছেন, কাবুলের ঈদ গাহ মসজিদের গেটের বাইরে একটি বোমা বিস্ফোরিত হয়। এসময় সেখানে তালেবান নেতা জাবিউল্লাহ মুজাহিদের মায়ের স্মরণে একটি অনুষ্ঠান চলছিলো। বিস্ফোরণে বেশ কয়েকজন মারা গেছেন।

আব্দুল্লাহ নামে স্থানীয় এক দোকানদার বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেন, আমি ঈদ গাহ মসজিদের কাছে গুলির পর বিস্ফোরণের শব্দ শুনেছি। বিস্ফোরণের কয়েক মুহূর্ত আগে তালেবান মসজিদের রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছিল বলেও জানিয়েছেন তিনি।

কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা জানিয়েছে, এখন পর্যন্ত কোনো দল বা গোষ্ঠী এ হামলার দায় স্বীকার করেনি। তবে তালেবান কাবুলের ক্ষমতা দখলের পর থেকে তাদের লক্ষ্য করে আইএসের হামলা বেশ বেড়েছে। এতে ভবিষ্যতে দুই গোষ্ঠীর মধ্যে আরও বড় সহিংসতার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ নানগারহারে আইএসের শক্তিশালী উপস্থিতি রয়েছে। সেখানে তালেবানের ওপর একাধিকবার হামলা চালিয়েছে তারা। সশস্ত্র এই জঙ্গিগোষ্ঠী তালেবানকে শত্রু বলে মনে করে।


আরও খবর



পূজামণ্ডপে আলোকসজ্জার তারে বিদ্যুৎস্পর্শে ৩ জনের মৃত্যু

প্রকাশিত:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ১১ অক্টোবর ২০২১ | ৪১৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বগুড়ার শেরপুর উপজেলায় পূজামণ্ডপে আলোকসজ্জার তারে বিদ্যুৎস্পর্শে একে একে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার সকাল ১০টার দিকে উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়নে চুরকুটা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেনগেদু মাহত (৪৫), পলাশ মাহত (৩২) ও ক্ষিতিশ চন্দ্র মাহত (৩৩)। তাদের বাড়ি একই এলাকায়।

শিরপুর থানার ওসি শহিদুল ইসলাম জানান, উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়নে চুরকুটা গ্রামে পূজামণ্ডপে আলোকসজ্জায় সংযোগ দেওয়া বৈদ্যুতিক তারে গেদু মাহত ভেজা কাপড় মেলতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পর্শ হন।

এ সময় তাকে বাঁচাতে গিয়ে পলাশ ও ক্ষিতিশ স্পষ্ট হন। এতে ঘটনাস্থলে তিনজনের মৃত্যু হয়। এ সময় তাদের উদ্ধার করতে গিয়ে গেদুর ছেলে রুবেল মাহতও আহত হয়।


আরও খবর



এ বছর হচ্ছে না জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা : শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৬০৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

এ বছর অষ্টম শ্রেণির জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও মাদ্রাসার জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষা হচ্ছে না বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। মঙ্গলবার (২৮ সেপ্টেম্বর) দুপুরে তিনি এ কথা বলেন।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সিদ্ধান্তের পর এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা নেওয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হলেও অষ্টম শ্রেণির জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও মাদ্রাসার জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষা নিয়ে এতোদিন কোনো সিদ্ধান্ত জানানো হয়নি। ফলে শিক্ষাবোর্ডগুলোও এ বিষয়ে কোনো নির্দেশনা পায়নি। তবে আজ এ বিষয়ে নিজেদের সিদ্ধান্তের কথা জানালেন শিক্ষামন্ত্রী।

সাধারণত জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা বছরের নভেম্বর মাসে হয়ে থাকে। আর স্কুলের বার্ষিক পরীক্ষাগুলো হয় ডিসেম্বর মাসে। করোনা সংক্রমণের দেড় বছর বন্ধের পর ১২ সেপ্টেম্বর থেকে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক স্তর পর্যন্ত সব ধরনের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হয়। আগামী ১৪ নভেম্বর এসএসসি ও ২ ডিসেম্বর এইচএসসি পরীক্ষার তারিখ চূড়ান্ত করে গত ২৭ সেপ্টেম্বর রুটিন অনুমোদনও দেওয়া হয়।

পরীক্ষার সূচির বিশেষ নির্দশনায় বলা হয়, কোডিড-১৯ অতিমারির কারণে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে অবশ্যই পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা কক্ষে আসন গ্রহণ করতে হবে। পরীক্ষার সময় দেড় ঘণ্টা। এমসিকিউ অংশের পরীক্ষার মধ্যে কোনো বিরতি থাকবে না।


আরও খবর



আজ শিশুদের পরীক্ষামূলক টিকাদান

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৪ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৪ অক্টোবর ২০২১ | ৪২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
সরকারের হাতে এখন ৬০ লাখ ডোজ ফাইজারের টিকা রয়েছে, এ থেকে ৩০ লাখ ডোজ দেওয়া হবে। বাকি ৩০ লাখ ডোজ রেখে দেওয়া হবে দ্বিতীয় ডোজ দেওয়ার জন্

বেশ কিছুদিন আলোচনার পর অবশেষে শিশুদের কোভিড টিকা দেওয়ার পথে অগ্রসর হচ্ছে বাংলাদেশ; পরীক্ষামূলকভাবে মানিকগঞ্জের দুটি স্কুলের শিক্ষার্থীদের দেওয়া হবে এই টিকা। আজ বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) দেশে প্রথমবারের মতো ১২ থেকে ১৭ বছর বয়সি শিক্ষার্থীদের করোনা ভাইরাসের টিকা দেওয়ার কথা জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম। এসব শিশুকে দেওয়া হবে ফাইজারের টিকা।

গতকাল বুধবার ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বলেন, এই টিকা দেওয়া হবে টেস্ট রান হিসেবে। যাদের টিকা দেওয়া হবে, তাদের ১০ থেকে ১৪ দিন পর্যবেক্ষণ করা হবে।

অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম বলেন, প্রধানমন্ত্রী আমাদের নির্দেশ দিয়েছিলেন শিশুদের টিকা দিতে। সেই অনুযায়ী আজ বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টায় মানিকগঞ্জের কর্নেল মালেক মেডিক্যাল কলেজে এই টিকার টেস্ট রান শুরু করব। প্রাথমিকভাবে দুটি সরকারি স্কুলের ১২ থেকে ১৭ বছরের ছেলেমেয়েদের বেছে নিয়েছি। তাদের ফাইজারের টিকা দেব। যে কোনো টিকা দেওয়ার আগে তা পরীক্ষামূলকভাবে শুরু করার কথা জানিয়ে

তিনি বলেন, টিকা দেওয়ার পর পর্যবেক্ষণ করব কোনো প্রতিক্রিয়া হয় কি না। তারপর ঢাকায় বড় আকারে এই টিকা কার্যক্রম শুরু করব। এক্ষেত্রে শিক্ষামন্ত্রী, শিক্ষাসচিবসহ শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অন্যান্য কর্মকর্তা আমাদের সঙ্গে সংযুক্ত হবেন।

স্বাস্থ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বলেন, টেকনিক্যাল কারণে টিকা দেওয়ার স্থান হিসেবে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর নির্বাচনি এলাকা মানিকগঞ্জকে বাছাই করা হয়েছে।

রবিবার মহাখালীতে বাংলাদেশ কলেজ অব ফিজিশিয়ানস অ্যান্ড সার্জনস মিলনায়তনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, সম্প্রতি সুইজারল্যান্ড সফরে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক ও গ্যাভির প্রতিনিধির সঙ্গে তার কথা হয়েছে। শিশুদের টিকা দেওয়ার ব্যাপারে তারা সায় দিয়েছেন

তিনি বলেন, সরকারের হাতে এখন ৬০ লাখ ডোজ ফাইজারের টিকা রয়েছে, এ থেকে ৩০ লাখ ডোজ দেওয়া হবে। বাকি ৩০ লাখ ডোজ রেখে দেওয়া হবে দ্বিতীয় ডোজ দেওয়ার জন্য।

শিশু শিক্ষার্থীদের নিবন্ধনের বিষয়ে ঐ দিন মন্ত্রী বলেছিলেন, শিক্ষার্থীরা তাদের জন্ম নিবন্ধন দিয়ে নিবন্ধন করবে। এছাড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের মাধ্যমেও নিবন্ধন করা যাবে। বিষয়টি আইসিটি বিভাগকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। যাদের জন্ম নিবন্ধন সনদ নাই, কিন্তু জন্ম সনদ আছে, তাদের আমরা জন্ম সনদের মাধ্যমে দেব। স্কুল থেকেও সার্টিফাই করবে।


আরও খবর
২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৪ জনের মৃত‌্যু

শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১

ডেঙ্গু: আরও ১২৩ জন হাসপাতালে

শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১