আজঃ বৃহস্পতিবার ১৩ মে ২০২১
শিরোনাম

পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত বাংলাদেশ-ভারত সীমান্ত বন্ধ

প্রকাশিত:সোমবার ০৩ মে ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ০৩ মে ২০২১ | ৯৪জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বাংলাদেশ-ভারত সীমান্ত পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত বন্ধ থাকবে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

সোমবার (৩ মে) সচিবালয়ে মন্ত্রিসভা বৈঠক থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সময় তিনি সাংবাদিকদের একথা বলেন।

করোনা ভাইরাসের কারণে বর্তমানে সীমান্ত বন্ধ রাখার যে সিদ্ধান্ত হয়েছে তা পরিবর্তন হচ্ছে না জানিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, বর্ডার যেভাবে বন্ধ করা আছে, তা বন্ধ থাকবে। পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত সীমান্তগুলো বন্ধ থাকবে।

 তিনি বলেন, ৮০ থেকে ৯০ শতাংশ সংক্রমণ এবং মৃত্যু হচ্ছে বিভিন্ন সিটি করপোরেশন এলাকায়। কাজেই এই অঞ্চলগুলোয় কঠোর নজরদারির আওতায় রাখা হবে। আগের ঘোষণা অনুযায়ী বাংলাদেশ-ভারত স্থলসীমান্ত ৯ মে পর্যন্ত বন্ধ। এবার সেটা অনির্দিষ্টকালের জন্য করে দেওয়া হলো।


আরও খবর



কওমি মাদ্রাসা বোর্ড থেকে হেফাজতে ইসলামকে বাদ দেয়ার দাবি

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ মে ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৪ মে ২০২১ | ৮৮জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

হেফাজতে ইসলামকে কওমি মাদ্রাসা বোর্ড থেকে বাদ দেয়ার দাবি জানিয়েছে ইসলামী ঐক্যজোট। হেফাজতের নাশকতামূলক কর্মকাণ্ডে জড়িত কওমি শিক্ষক-শিক্ষার্থীদেরও শাস্তি চায় সংগঠনটি।

মঙ্গলবার (৪ মে) জাতীয় প্রেসক্লাবে হেফাজতে ইসলামের সাম্প্রতিক তাণ্ডব এবং হেফাজতে জামায়াত-শিবিরের অনুপ্রবেশের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলনে এসব দাবি জানান ইসলামী ঐক্যজোট।

এ সময় ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান আলহাজ মিছবাহুর রহমান চৌধুরী বলেন, কওমি মাদরাসা শিক্ষাবোর্ড-বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া এবং উচ্চতর সমন্বয় সংস্থা-আল হাইয়াতুল উলিয়া লিল জামিয়াতিল কওমিয়া থেকে সহিংসতায় জড়িত হেফাজত নেতাদের বহিষ্কার করা হোক। এসময় তিনি তাণ্ডবে জড়িত শিক্ষার্থীদের কওমি মাদরাসা বহিষ্কারের দাবিও জানান।

পাকিস্তানসহ বিদেশি গোয়েন্দা সংস্থার সাথে দেশ বিরোধী ষড়যন্ত্রে যুক্ত থাকায় হেফাজত নেতা মামুলুল হকের দলের নিবন্ধন বাতিলের দাবি করেন ইসলামি ঐক্যজোট নেতারা। ফৌজদারী অপরাধে হেফাজত নেতাদের বিচারের মুখোমুখি করার পাশাপাশি হেফাজতের অর্থদাতাদের আইনের আওতায় আনার দাবি জানান তারা।

ওয়াজ ও তাফসির মাহফিলের নামে হেফাজত ও জামায়াত নেতাদের জিহাদের অপব্যাখা ও উগ্রবাদের পক্ষের নানা বক্তব্য বন্ধ করার জন্য ইসলামি কাউন্সিল গঠন করার কথা বলেন তারা। আর কওমি মাদরাসার ঐতিহ্য রক্ষা এবং ভাবমূর্তি পুনরুদ্ধারে ১১ সদস্যের আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়।


আরও খবর



আগামী মাসে ২০ লাখ ডোজ টিকা দেবে ভারত: স্বাস্থ্যের ডিজি

প্রকাশিত:রবিবার ২৫ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ এপ্রিল ২০২১ | ৮৩জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
অপরদিকে চীন উপহার হিসেবে বাংলাদেশকে সিনোফার্মের তৈরি করোনাভাইরাসের টিকা সিনোভ্যাকের ৫ লাখ ডোজ উপহার দিচ্ছে। চীন সিনোফার্মের তৈরি ৫ লাখ ভ্যাকসিন

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম বলেছেন, আগামী মাসে ২০ লাখ ডোজ টিকা দেবে ভারতের সেরাম ইন্সটিটিউট। আজ রবিবার (২৫ এপ্রিল) স্বাস্থ্য অধিপ্তরের নিজ কক্ষে সাংবাদিকদের তিনি এ তথ্য জানান।

মহাপরিচালক বলেন, যেহেতু টিকা শেষ হওয়ার আগেই আমরা পাচ্ছি, সুতরাং কোনো সংকট হবে না। আর গণটিকাদানের প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের কার্যক্রমও আমাদের চলবে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম বলেছেন, অপরদিকে চীন উপহার হিসেবে বাংলাদেশকে সিনোফার্মের তৈরি করোনাভাইরাসের টিকা সিনোভ্যাকের ৫ লাখ ডোজ উপহার দিচ্ছে। চীন সিনোফার্মের তৈরি ৫ লাখ ভ্যাকসিন বাংলাদেশকে উপহার হিসেবে দেবে বলে জানিয়েছে। ড্রাগ অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের মহাপরিচালক এর অনুমোদন দিয়েছেন। এটি গ্রহণ করার পর আমাদের যারা নীতি-নির্ধারক আছেন, তারা সিদ্ধান্ত নেবেন কখন কীভাবে টিকাগুলো প্রয়োগ করা হবে।

এর আগে ভারতের করোনা পরিস্থিতি ক্রমশ অবনতি হওয়ায় বাংলাদেশকে প্রতিশ্রুতি মোতাবেক টিকা দেয়ার ক্ষেত্রে ধোঁয়াশা তৈরি হয়। এমনকি এ বিষয়ে ঢাকাস্থ ভারতীয় হাইকমিশন থেকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে এ সংক্রান্ত কূটনৈতিক বার্তাপাঠানো হয়েছে। বার্তায় উল্লেখ করা হয়েছে, কূটনৈতিক তৎপরতার পরও ভারতের চলমান পরিস্থিতিতে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিন কোভিশিল্ডপ্রতিশ্রুত সময়ে দেয়া সম্ভব হচ্ছে না।

বিভিন্ন গণমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, ভারতে প্রতিদিন তিন লাখের বেশি নতুন রোগী শনাক্ত হচ্ছে। যেখানে প্রকোপ বেশি সেখানে হাসপাতালে জায়গা দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। অক্সিজেন সংকট রয়েছে এবং স্বাস্থ্যসেবার অবস্থা খুবই নাজুক।

একটি সূত্র জানায়, সেরাম ইন্সটিটিউট প্রতিমাসে ৬০ থেকে ৭০ মিলিয়ন ডোজ টিকা উৎপাদন করছে। ভারত বায়োটেক করছে ৫ থেকে ১০ মিলিয়ন। এর বিপরীতে প্রতিদিন টিকা নিচ্ছে প্রায় তিন মিলিয়ন। বর্তমানে ৪৫ বছরের ঊর্ধ্বে যারা শুধু তারই টিকা নিতে পারবেন। তবে ১ মে থেকে ১৮ বছরের ঊর্ধ্বে সবাইকে টিকা দেওয়া হবে। বর্তমান যে চাহিদা রয়েছে, ১ মে থেকে তা অনেক বৃদ্ধি পাবে। কারণ, পরিস্থিতি খারাপ দেখে অনেকেই এখন টিকা নেওয়ার জন্য আগ্রহ দেখাচ্ছেন।

কিন্তু ভারতে করোনা সংক্রমণের হার বেড়ে যাওয়ার কারণে টিকা রপ্তানি বন্ধের বিষয়ে রাজনৈতিকসহ বিভিন্ন মহলের চাপ আছে। তাছাড়া ভারতে টিকার বিষয়টি দেখভাল করছে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় এবং উচ্চপর্যায়ের একটি কমিটি।

উল্লেখ্য, সেরাম ইন্সটিটিউট থেকে ৩০ মিলিয়ন ডোজ টিকা কেনার জন্য বাংলাদেশ চুক্তির পর অগ্রিম অর্থ প্রদান করে। চুক্তির শর্ত অনুযায়ী, প্রতিমাসে ৫০ লাখ করে জুন মাসের মধ্যে তিন কোটি ডোজ টিকা দেওয়ার কথা সেরামের। কিন্তু এখন পর্যন্ত মাত্র দেড় কোটি ডোজের বিপরীতে মাত্র ৭০ লাখ ডোজ টিকা সরবরাহ করেছে।


আরও খবর



হাসপাতাল থেকে পালালো ভারত ফেরত ১০ করোনা রোগী

প্রকাশিত:সোমবার ২৬ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২৬ এপ্রিল ২০২১ | ১০৯জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতাল থেকে ভারতফেরত ১০ জন করোনা রোগী পালিয়েছেন। শনিবার সকাল থেকে রবিবার দুপুরের মধ্যে তারা হাসপাতাল ছেড়ে পালিয়ে গেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

হাসপাতালের নার্স ও কর্মচারীদের অবহেলার কারণে তারা পালিয়ে যান বলে অভিযোগ উঠেছে। এতে করোনাভাইরাসের ইন্ডিয়ান ভ্যারিয়েন্ট দেশে ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন জানান, হাসপাতালে দেওয়া নাম-ঠিকানা অনুসারে খুঁজে বের করে স্ব স্ব জেলায় আইসোলেশনে রাখা হবে।

সোমবার দুপুর সোয়া ১২টায় মোবাইলে জেলা প্রশাসক মো. তাজুল ইসলাম খান বলেন, হাসপাতাল থেকে পালিয়ে যাওয়া রোগীদের তালিকা আমার কাছে পাঠানো হবে বলে তত্ত্ববধায়ক জানিয়েছেন। কিন্তু এখনও পাইনি। পাওয়ার পর সংশ্লিষ্ট জেলার প্রশাসন ও পুলিশকে জানানো হবে।

হাসপাতালের তত্ত্ববধায়ক ডা. দিলীপ কুমার রায়কে মোবাইলে কল করলেও তিনি রিসিভ করেননি।

যশোর জেনারেল হাসপাতালের একটি সূত্র জানায়, গত শনিবার সকাল ১০টা ৫৭ মিনিটে ভারতফেরত কিছু রোগীকে ভর্তি করা হয়। রবিবারও রোগী আসে। সব মিলিয়ে দুদিনে ১০ জন করোনা রোগী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তাদের সবাইকে হাসপাতালের তৃতীয় তলায় করোনা ওয়ার্ডে পাঠানো হয়।

হাসপাতালের ভর্তি রেজিস্টার মতে, ভর্তি রোগীরা হলেন-যশোর শহরের বিমান অফিস মোড়ের আবুল কাসেমের স্ত্রী ফাতেমা বেগম (৫৭), খালধার রোডের বিশ্বনাথের স্ত্রী মালা দত্ত (৫০), সদর উপজেলার পাঁচবাড়িয়া গ্রামের রবিউল ইসলামের স্ত্রী ফাতেমা বেগম (১৯), একই গ্রামের একরামের স্ত্রী রোমা (৩০), প্রতাপকাঠি গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে মমিন, রামকান্তপুর গ্রামের গোলাম রব্বানীর স্ত্রী নাসিমা বেগম (৫০), বাঘারপাড়া উপজেলার রায়পুর গ্রামের ফজর আলীর ছেলে শহিদুল ইসলাম (৪৫), ঝিনাইদহ জেলার কালীগঞ্জের মনোতোষের স্ত্রী শেফালি রানি, খুলনা জেলার পাইকগাছা উপজেলার রামরাইল গ্রামের আহম্মদ সানার ছেলে আমিরুল সানা ও একই জেলার রূপসা এলাকার শের আলীর ছেলে সোহেল (১৭)।

করোনা ওয়ার্ডে দায়িত্বরত সিনিয়র নার্স লাবনী বিশ্বাস সাংবাদিকদের জানান, ভারত থেকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আসা ১০ জন ওয়ার্ডে ভর্তি ছিলেন। রবিবার সকালের পর থেকে তাদের খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।

চিকিৎসকরা জানান, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী কোনো পরিবারে থাকলে, তার মাধ্যমে প্রথমে তার পরিবার এবং আশপাশের লোকজনও আক্রান্ত হতে পারেন।

যশোর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের একাধিক চিকিৎসক বলেন, করোনার ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট উদ্বেগ তৈরি করেছে। ফলে উধাও হওয়া রোগীরা যদি ভারতীয় ভেরিয়েন্টের বাহক হন তাহলে তা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে।


আরও খবর



১ দিনে করোনায় সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১৪ এপ্রিল ২০২১ | ১৮৪জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গেলো ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৯৬ জন মারা গেছেন। এটি দেশে কোভিডে আক্রান্ত হয়ে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড।

এ নিয়ে ভাইরাসটিতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯ হাজার ৯৮৭ জনে। এ সময় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ হাজার ১৮৫ জন। এ নিয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা হলো ৭ লাখ ৩ হাজার ১৭০ জন।

আজ বুধবার (১৪ এপ্রিল) বিকেলে করোনাভাইরাস নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এদিকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, বুধবার সকাল পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে মারা গেছেন ১২ হাজার ৮৪৮ জন এবং নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৭ লাখ ৩৫ হাজার ৪৮৬ জন। এ নিয়ে বিশ্বে মোট করোনায় মৃত্যু হয়েছে ২৯ লাখ ৭১ হাজার ৮৬৪ জনের এবং আক্রান্ত হয়েছেন ১৩ কোটি ৮০ লাখ ১৩ হাজার ৭৪ জন। এছাড়া সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১১ কোটি ১০ লাখ ৩২ হাজার ১৮৫ জন।

করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ২০ লাখ ৭০ হাজার ৭৮৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৭৭ হাজার ১৭৯ জনের।

আক্রান্ত ও মৃত্যুতে দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে এখন পর্যন্ত সংক্রমিত হয়েছেন এক কোটি ৩৮ লাখ ৭১ হাজার ৩২১ জন এবং মারা গেছেন এক লাখ ৮৫ হাজার ২৪৮ জন।

আক্রান্ত এবং মৃত্যুতে তৃতীয় অবস্থানে থাকা ব্রাজিল এখন পর্যন্ত করোনায় এক কোটি ৩৬ লাখ ১ হাজার ৫৬৬ জন সংক্রমিত হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ৫৮ হাজার ৭১৮ জনের।

আক্রান্তের দিক থেকে চতুর্থ স্থানে রয়েছে ফ্রান্স। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫১ লাখ ৬ হাজার ৩২৯ জন। ভাইরাসটিতে মারা গেছেন ৯৯ হাজার ৪৮০ জন।

আক্রান্তের দিক থেকে রাশিয়া রয়েছে পঞ্চম স্থানে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৪৬ লাখ ৫৭ হাজার ৮৮৩ জন। এর মধ্যে মারা গেছেন এক লাখ ৩ হাজার ৬০১ জন।

এদিকে আক্রান্তের তালিকায় যুক্তরাজ্য ষষ্ঠ, তুরস্ক সপ্তম, ইতালি অষ্টম, স্পেন নবম এবং জার্মানি দশম স্থানে রয়েছে। এই তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ৩৩তম।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৮টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড-১৯।


আরও খবর



টাইগারদের বিবর্ণ বোলিংয়ে ঝলমলে তাসকিন

প্রকাশিত:শুক্রবার ৩০ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ৩০ এপ্রিল ২০২১ | ৬৩জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ফিল্ডারদের ব্যর্থতায় আগের দিন মেলেনি উইকেট। তবে তাসকিন আহমেদের আত্মবিশ্বাস আর উদ্যমে তা প্রভাব ফেলতে পারেনি। দ্বিতীয় নতুন বলেও করলেন গতিময় বোলিং, আদায় করে নিলেন মুভমেন্ট। সঙ্গে মিলল দুটি গুরুত্বপূর্ণ উইকেট। তার হাত ধরেই ছয়শ রানে চোখ রাখা শ্রীলঙ্কাকে নাড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশ।

পাল্লেকেলেতে দ্বিতীয় টেস্টের দ্বিতীয় দিন লাঞ্চ বিরতিতে শ্রীলঙ্কার স্কোর ১১৬ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ৩৩৪ রান। প্রথম সেশনে ২৬ ওভারে মাত্র ৪৩ তুলতে ৩ উইকেট হারিয়েছে তারা।

১ উইকেটে ২৯১ রান নিয়ে শুক্রবারের খেলা শুরু করে লঙ্কানরা প্রথম ঘণ্টায় ১২ ওভারে কোনো উইকেট না হারিয়ে যোগ করে ১৮ রান। দ্বিতীয় ঘণ্টায় ১৪ ওভারে ২৫ রান তুলতেই আগের দিনের সেঞ্চুরিয়ান লাহিরু থিরিমান্নে, অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস ও ধনাঞ্জয়া ডি সিলভার উইকেট হারায় স্বাগতিকরা।

এক প্রান্ত আগলে রেখেছেন ওশাদা ফার্নান্দো। ১৭২ বলে ৭ চারে ৬৫ রানে অপরাজিত তিনি। ১৩ বল খেলে এখনও রানের খাতা খুলতে পারেননি পাথুম নিশানকা।

প্রথম দিন প্রথম ঘণ্টা কাটিয়ে দেওয়ার পর সাবলীলভাবে এগিয়ে গিয়েছিল শ্রীলঙ্কা। তবে দ্বিতীয় দিন কঠিন সময় পার করে দেওয়ার পরও মেলেনি স্বস্তি। তাসকিন, তাইজুল ইসলামদের দারুণ বোলিংয়ে দ্রুত তিন উইকেট নিয়ে ঘুরে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশ। সকালের সেশনের শেষ ভাগে কিছুটা সহায়তা পেয়েছেন বোলাররা।

দ্বিতীয় নতুন বল তখনও বেশ নতুন। প্রথম ঘণ্টায় তাই ঘুরিয়ে-ফিরিয়ে তিন পেসারকে দিয়ে বোলিং করান অধিনায়ক মুমিনুল হক। দিনের শুরুতে বল হাতে পান তাসকিন ও শরিফুল ইসলাম। নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে ব্যাটসম্যানদের বেঁধে রাখেন দুজন। দুয়েকটা বাজে ডেলিভারিও অবশ্য করেন। তাতে হজম করেন বাউন্ডারি।

পানি পানের বিরতির আগে আবু জায়েদকে চার মেরে ওশাদা ফিফটি পূর্ণ করেন ১৩২ বলে। তাতে দ্বিতীয় উইকেট জুটির রানও স্পর্শ করে শতরান।

বিরতির পর তৃতীয় ওভারেই মেলে সাফল্য। ধৈর্যশীল ব্যাটিংয়ে এগোচ্ছিলেন থিরিমান্নে। হঠাৎই যেন একটু মনোযোগ হারান। তাসকিনের লেগ স্টাম্পের বাইরের বল তার গ্লাভস ছুঁয়ে জমা হয় কিপার লিটন দাসের গ্লাভসে। ২৮৯ বলে ১৫ চারে গড়া লঙ্কান ওপেনারের ১৪০ রানের ইনিংস।

দুই বল পরই তাসকিন উইকেট পেতে পারতেন আরেকটি। তার লেংথ বল ডিফেন্স করার চেষ্টায় পরাস্ত হন ম্যাথিউস। বল যায় লিটনের গ্লাভসে। পরে আল্টা এজে মেলে ব্যাটে বলের স্পর্শের প্রমাণ। কিন্তু আবেদন করেননি সফরকারীদের কেউই!

সেটির মূল্য অবশ্য খুব বেশি দিতে হয়নি। নিজের এক ওভার পরই তাসকিন ফিরিয়ে দেন ম্যাসথিউসকে। ব্যাটের কানা ছুঁয়ে আসা ক্যাচ ঝাঁপিয়ে গ্লাভসে জমান লিটন।

প্রথম টেস্টে দেড়শ ছাড়ানো ইনিংস খেলা ধনাঞ্জয়া ডি সিলভাকে টিকতে দেননি তাইজুল ইসলাম। বাঁহাতি স্পিনারের অফ স্টাম্পের বল জায়গায় দাঁড়িয়ে ডিফেন্স করতে চেয়েছিলেন ধনাঞ্জয়া। ব্যাটের কানায় স্পর্শ করে লিটনের গ্লাভস ছুঁয়ে বল যায় স্লিপে নাজমুল হোসেন শান্তর কাছে। দুইবারের চেষ্টায় বল মুঠোবন্দি করেন তিনি।

প্রথম দিনের খেলা শেষে লঙ্কান অধিনায়ক দিমুথ করুনারত্নে বলেছিলেন, অন্তত ৬০০ রান করতে চান তারা। প্রথম সেশনে বাংলাদেশের বোলিংয়ে সেই লক্ষ্য মনে হচ্ছে অনেক দূরের পথ।


আরও খবর