আজঃ বৃহস্পতিবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২১
শিরোনাম

প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রী পেলো সুইডেন

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৪ নভেম্বর ২০২১ | ১০৮০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ইউরোপের দেশ সুইডেনের প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন ম্যাগডালেনা অ্যান্ডারসন। এর মাধ্যমে ইতিহাসে প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রী পেলো দেশটি। বুধবার (২৪ নভেম্বর) দেশটির পার্লামেন্টে ভোটাভুটিতে প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হয়েছেন তিনি।

আল জাজিরার এক প্রতিবেদনে জানানো হয় গত ৫৪ বছর বয়সী অ্যান্ডারসন চলতি মাসের শেষের দিকে দলটির নেতৃত্বে আসেন। বুধবার পার্লামেন্টে ভোটের সময় বিদায়ী নেতা স্টেফান লোফভেনের উত্তরসূরি হিসেবে তিনি প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হন। পার্লামেন্টর ১১৭ জন সদস্য তার পক্ষে ভোট দিয়েছে। অন্যদিকে তার বিরুদ্ধে ভোট পড়েছে ১৭৪টি। আর ভোট দেওয়া থেকে বিরত থেকেছেন পার্লামেন্টের ৫৭ জন সদস্য।

প্রধানমন্ত্রী পদের জন্য সুইডেনের ৩৪৯ আসনের সংসদে অ্যান্ডারসনের পক্ষে ভোট দিয়েছেন ১১৭ জন, ভোটদান থেকে বিরত ছিলেন ৫৭ জন, বিপক্ষে ভোট দিয়েছেন ১৭৪ জন এবং একজন অনুপস্থিত ছিলেন।

সুইডেনের আইন অনুযায়ী, সংসদে একজন প্রধানমন্ত্রী প্রার্থীর জন্য সংখ্যাগরিষ্ঠ আইনপ্রণেতার সমর্থনের দরকার হয় না। প্রার্থীর সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়ার প্রয়োজন নেই; তবে ১৭৫ জনকে বিপক্ষে ভোট দিতে হয়।


আরও খবর



সন্ধ্যায় সংবাদ সম্মেলন করবে খালেদা জিয়ার মেডিক্যাল বোর্ড

প্রকাশিত:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৪৫০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বর্তমান শারীরিক অবস্থা নিয়ে সংবাদ সম্মেলন ডাকা হয়েছে।

রোববার সন্ধ্যা ৭টায় গুলশান বিএনপির চেয়ারপারসনের বাসভবনে এ সংবাদ সম্মেলনে হবে।

সংবাদ সম্মেলনে খালেদা জিয়ার চিকিৎসকরা বক্তব্য রাখবেন।

চেয়ারপারসনের মিড়িয়া উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, সংবাদ সম্মেলনে ম্যাডামের চিকিৎসায় গঠিত মেডিকেল বোর্ডের চিকিৎসকরা বক্তব্য রাখবেন। তারা ম্যাডামের শারীরিক অবস্থা নিয়ে কথা বলবেন।


আরও খবর
করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত বেড়েছে

মঙ্গলবার ০৭ ডিসেম্বর ২০২১




৪৪ রানের লিড পেল বাংলাদেশ

প্রকাশিত:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ৩৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

কঠিন চ্যালেঞ্জ নিয়ে আজ রোববার চট্টগ্রাম টেস্টের তৃতীয় দিন শুরু করে বাংলাদেশ। লক্ষ্য ছিল দ্রুত পাকিস্তানের উইকেট তুলে নেওয়া। সেই লক্ষ্য পূরণে বড় ভূমিকা রেখেছেন তাইজুল ইসলাম। তিনি একাই নিয়েছেন সাত উইকেট। তাইজুলের দুর্দান্ত বোলিংয়ে প্রথম ইনিংসে পাকিস্তানকে ২৮৬ রানে থামিয়েছে বাংলাদেশ।

চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ম্যাচের তৃতীয় দিনে ২৮৬ রানে ইনিংস গুটিয়ে নেয়  পাকিস্তান। তাই প্রথম ইনিংসে ৪৪ রানের লিড পেয়েছে বাংলাদেশ।

ম্যাচের দ্বিতীয় দিন বাংলাদেশকে ভুগিয়েছে পাকিস্তানি ব্যাটররা। প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে কোনো উইকেট না হারিয়ে দ্বিতীয় দিন শেষ করে সফরকারীরা। দিন শেষে মাথা ব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়ান আবিদ আলী ও আবদুল্লাহ শফিক। তবে আজ দিনের শুরুতেই এই শক্ত জুটি ভাঙেন তাইজুল। ফিরিয়ে দেন শফিককে। আগের দিন ৫২ করা শফিক আজ স্কোরবোর্ডে কোনো রান যোগ করতে পারেননি।

তিনে ব্যাট করতে নামা আজহারকেও টিকতে দেননি তাইজুল। গোল্ডেন ডাকে তাঁকে সাজঘরে পাঠান এই স্পিনার।

পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজমের প্রতিরোধ ভাঙেন মেহেদী হাসান মিরাজ। প্রথম সেশনেই মিরাজের করা বল অফ স্টাম্পে পড়ে সোজা যাওয়ায় লাইনে যেতে পারেননি বাবর। সরে গিয়ে খেলার চেষ্টা করেন। তবে সফল হননি। বল চলে যায় স্টাম্পে। ভাঙে ২৩ রানের জুটি। ৪৬ বলে ১০ রান করেন বাবর। এরপর রিজওয়ানকে ফিরিয়ে প্রথম উইকেটের দেখা পান ইবাদত।

সতীর্থরা আসা-যাওয়ায় ব্যস্ত থাকলেও থিতু ছিলেন আবিদ। তুলে নেন ক্যারিয়ারের চতুর্থ টেস্ট সেঞ্চুরি। ভয়ংকর হয়ে ওঠা এই ব্যাটারকে শেষ পর্যন্ত থামান তাইজুলই। দ্বিতীয় সেশনে আবিদকে এলবিডব্লিউ করেন তিনি। ২৮২ বলে ১৩৩ রান করে থামেন এই ওপেনার। শেষ হিকে ফাহিম আশরাফ ৩৮ রানের একটি ইনিংস খেলেন।

বাংলাদেশের হয়ে বল হাতে বেশ উজ্জ্বল ছিলেন তাইজুল ইসলাম। ১১৬ রান দিয়ে সাত উইকেট নেন তিনি। ৪৭ রান খরচায় দুটি উইকেট নেন ইবাদত। আর মেহেদী হাসান মিরাজ পান একটি উইকেট।

এর আগে প্রথম ইনিংসে ৩৩০ রান করে বাংলাদেশ। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ১১৪ রান করেন লিটন। মুশফিকুর রহিম করেন ৯১ রান।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

বাংলাদেশ প্রথম ইনিংস : ৩৩০ (সাদমান ১৪, সাইফ ১৪, শান্ত ১৪, মুমিনুল ৬, মুশফিক ৯১, লিটন ১১৪, ইয়াসির ৪, মিরাজ ৩৮, তাইজুল ১১, আবু জায়েদ রাহি ৮, ইবাদত ০; আফ্রিদি ২৭-৮-৭০-২, হাসান ২০.৪-৫-৫১-৫, ফাহিম ১৪-২-৫৪-২, সাজিদ ২৭-৫-৭৯-১)।

পাকিস্তান প্রথম ইনিংস : ২৮৬ (আবিদ ১৩৩, শফিক ৫২, আজহার ০, বাবর ১০, ফাওয়াদ ৮, রিজওয়ান ৫, হাসান ১২, সাজিদ ৫, আশরাফ ৩৮, আফ্রিদি ১৩ ; তাইজুল ৪৪.৪-৯-১৬-৭ , ইবাদত ২৬-৭-৪৭-২, মিরাজ ৩০-৭-৬৮-১, রাহি ১২-০-৪১-০, মুমিনুল ৩-০-১২-০


আরও খবর
মেসির সামনেই রেকর্ড ভেঙে দিলেন এমবাপে

বৃহস্পতিবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২১




পিরোজপুরে ৪ দিন ধরে নিখোঁজ মাদ্রাসা শিক্ষার্থী রাফি

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৬ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৬ নভেম্বর ২০২১ | ৬২০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

পিরোজপুর সদর উপজেলায় ৪ দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছেন এক মাদ্রাসাশিক্ষার্থী। নিখোঁজ মো. রেজওয়ান আহম্মেদ রাফি (১৫) সদর উপজেলার পূর্ব শিকারপুর এলাকার মো. কাবিল হাওলাদারের ছেলে। রাফি ধূপপাশা কেরাতুল হাফেজিয়া মাদ্রাসার ছাত্র।

রাফির বাবা কাবিল হাওলাদার নিখোঁজের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তার ছেলে ২১ নভেম্বর সন্ধ্যায় মাদ্রাসা থেকে বাড়ির উদ্দেশে বের হয়। তার পর থেকে অনেক জায়গায় খোঁজ নিয়েও তাকে পাওয়া যায়নি বলে জানান রাফির বাবা। পরে পিরোজপুর সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন তিনি।

মাদ্রাসার পরিচালক গোলাম মাওলা রসুল বলেন, রাফি প্রায়ই এভাবে বাড়িতে চলে যায়। প্রতিবারের মতো ওইদিন আমার অনুপস্থিতে ছাত্র জিহাদের কাছে বলে মাদ্রাসা থেকে বের হয়ে বাড়ির উদ্দেশে রওনা দেয় রাফি। ২২ নভেম্বর রাফির বাবা মাদ্রাসায় খোঁজ নিলে আমি বলেছি, রাফি বাড়িতে যাওয়ার কথা বলে বের হয়েছে।

এদিকে পিরোজপুর সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আ জা মো. মাসুদুজ্জামান জানান, এ ঘটনায় নিখোঁজ শিক্ষার্থী রাফির বাবা থানায় একটি জিডি করেছেন। পুলিশ নিখোঁজ শিক্ষার্থীর সন্ধানে কাজ করে যাচ্ছে।


আরও খবর
পিরোজপুর মুক্ত দিবস আগামীকাল

মঙ্গলবার ০৭ ডিসেম্বর ২০২১




শরীরে লম্বা লেজ নিয়ে জন্ম হল শিশুর!

প্রকাশিত:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ১০ নভেম্বর ২০২১ | ৯০৩৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ব্রাজিলে ১২ সেন্টিমিটার লম্বা একটি লেজসহ জন্ম হয়েছে এক মানবশিশুর। সম্প্রতি পেডিয়াট্রিক কেস রিপোর্টস নামে একটি জার্নালের মাধ্যমে বিষয়টি প্রকাশ্যে এসেছে। ওই জার্নালে শিশুটির কোনো পরিচয় উল্লেখ করা হয়নি। এতে বলা হয়েছে, শিশুটি অপরিণত অবস্থায় জন্ম নেয়। তবে এর জন্য শিশুটির শরীরে আর  কোনো জটিলতা ছিল না। 

শিশুটির শরীরে বাঁ পাশে মাজার নিচ থেকে একদম লেজের মতো কিছু একটা নেমে গেছে যেটা লম্বায় ১২ সেন্টিমিটার। আর ওই অংশটির সাথে জোড়া লাগানো আছে গোলাকার আরেকটি অংশ, যার সর্বোচ্চ ব্যাস ৪ সেন্টিমিটার। আলট্রাসাউন্ড পরীক্ষা করে শিশুটির শরীরে অন্য কোনো সমস্যা বা ব্যতিক্রমী কিছু আর পাওয়া যায়নি।

মানবশরীরে কখনও যদি লেজের মতো কোনো অঙ্গ দেখা যায়, তবে সেটিকে দুভাবে সংজ্ঞায়িত করা হয়। এর একটিকে বলা হয় ট্রু টেল আর অন্যটি হলো সিউডো টেল।


এরমধ্যে সিউডো টেলটা হলো মূলত শরীরের একটি বর্ধিত অংশ যেটা মূলত অ্যাডিপোজ ও কার্টিলাগিনাউস টিস্যু দিয়ে তৈরি, আর এ ধরনের লেজে হাড়ের কিছু উপাদান বিদ্যমান থাকে। আর ট্রু হিউম্যান টেল যেটাকে বলা হয়, সেটা একেবারেই বিরল, এখন পর্যন্ত ৪০টি শিশুর ক্ষেত্রে হওয়ার তথ্য পাওয়া গেছে। 

এই সত্যিকারের লেজ বলতে আসলে ভ্রুণের লেজের কথা বলা হয়, স্বাভাবিক অবস্থায় যেটা শিশুর জন্মের আগ পর্যন্ত থাকে। সাধারণত ভ্রুণের বয়স যখন চার সপ্তাহ হয়, তখন ভ্রুণে ছোট্ট একটি লেজ তৈরি হয়। তবে ভ্রুণের বয়স যখন ১২ সপ্তাহ মতো হয় তখন শ্বেত রক্ত কণিকায এই লেজটা শোষিত হয়।

বিরল কিছু ক্ষেত্রে, এ শিশুটার ক্ষেত্রে যেমন হয়েছে, শ্বেত রক্ত কণিকায় লেজটার কিছু হয় না এবং ভ্রুণ পরিণত হতে থাকলেও লেজটা তার সঙ্গে থেকেই যায়। তবে চিকিৎসকরা দ্কেনো জটিলতা ছাড়াই অস্ত্রপাচারের মাধ্যমে শিশুটির শরীর থেকে লেজটি ফেলে দিয়েছেন। এর পরে পুরোপুরি সুস্থ আছে শিশুটি।  


আরও খবর
এক কাঁকড়ার দাম ৩৭ লাখ টাকারও বেশি

মঙ্গলবার ০৯ নভেম্বর ২০২১




বিশ্বের সমরাস্ত্র বিক্রেতাদের নজর এখন বাংলাদেশে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৬ নভেম্বর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ নভেম্বর ২০২১ | ৫৬০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

বিশ্বের সমরাস্ত্রের বিক্রেতাদের নজর এখন বাংলাদেশের দিকে। যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র, ফ্রান্স, স্পেন, নেদারল্যান্ডস, তুরস্ক, জাপান, জার্মানি, রাশিয়া, ইতালির কাছে অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশও অত্যাধুনিক অস্ত্রের সম্ভাব্য ক্রেতা। সে কারণে এসব দেশ থেকে প্রতিরক্ষা সহযোগিতা ও সমরাস্ত্র বিক্রির বিভিন্ন প্রস্তাবও বাংলাদেশের কাছে এসেছে।

পররাষ্ট্রসচিব মাসুদ বিন মোমেন বলেছেন, পশ্চিমা দেশগুলো এখন বাংলাদেশের কাছে অত্যাধুনিক অস্ত্র বিক্রিতে আগ্রহ দেখাচ্ছে। এসব প্রস্তাব যাচাই-বাছাইয়ের পর বাংলাদেশের সক্ষমতা অনুযায়ী দাম, মান ও কৌশলগত দিক বিবেচনা করে সেগুলো নেওয়া হবে।

দেশের সামরিক বাহিনীগুলোকে আধুনিকায়নের উদ্দেশ্যে ২০০৯ সালে প্রথম ফোর্সেস গোল ২০৩০ গ্রহণ করে বাংলাদেশ। ২০১৭ সালে তা সংশোধন করা হয়। এর মাধ্যমে দেশের সেনাবাহিনী, বিমানবাহিনী ও নৌবাহিনীকে যুগোপযোগী ও আধুনিক করার পরিকল্পনা হাতে নেওয়া হয়। তারই অংশ হিসেবে আধুনিক সমরাস্ত্র কেনার বিষয়টি সামনে আসছে।

তা ছাড়া পশ্চিমা দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্কের পরিবর্তন এনেছে বাংলাদেশ। যুক্তরাজ্য, জার্মানি, ফ্রান্স, ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ), যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সম্পর্ককে কৌশলগত পর্যায়ে নিয়ে গেছে বাংলাদেশ। অর্থনৈতিক সক্ষমতা বাড়ায় বাংলাদেশকে নিয়মিত বাণিজ্যের পাশাপাশি সমরাস্ত্রের সম্ভাব্য বাজার হিসেবে বিবেচনা করছে পশ্চিমা দেশগুলো।

সে কারণে মতপ্রকাশের স্বাধীনতা, আইনের শাসন, গণতান্ত্রিক চর্চা, শান্তিপূর্ণ সমাবেশের স্বাধীনতা, বিচারব্যবস্থাকে আরও কার্যকরী করা, বিচারবহির্ভূত হত্যা, নির্বাচন, নির্বাচন কমিশন গঠন, বিরোধী মতকে প্রাধান্য না দেওয়ার মতো ইস্যুগুলো নিয়ে আগের মতো সমালোচনা করছে না পশ্চিমারা। বাংলাদেশকে না চটিয়ে ব্যবসায় মনোযোগ দিয়ে কৌশলে পরিবর্তন করছে তারা।

পাশাপাশি চীনকে ঠেকাতে ভারত প্রশান্ত মহাসাগরীয় কৌশল তো রয়েছেই। সেই দলেও বাংলাদেশকে নিতে চায় পশ্চিমারা।

নিরাপত্তা বিশ্লেষক ও বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব পিস অ্যান্ড সিকিউরিটি স্টাডিজের প্রেসিডেন্ট মেজর জেনারেল (অব) মনিরুজ্জামান বলেন, ফোর্সেস গোল ২০৩০-কে লক্ষ্য রেখে সমরাস্ত্র সংগ্রহ করছে বাংলাদেশ। এগুলো সংগ্রহ করে ঘাটতি পূরণ করা হচ্ছে। যে অস্ত্রগুলো আমাদের কাছে মজুত নেই, সেগুলোই কেনা হচ্ছে। বাংলাদেশের কৌশলগত অবস্থানে সম্ভাব্য যে শক্তি বজায় রাখা প্রয়োজন, সেই দিকে লক্ষ্য রেখে আমাদের সমরাস্ত্র সংগ্রহের প্রয়োজনীয়তা রয়েছে।

নিউজ ট্যাগ: সমরাস্ত্র

আরও খবর