আজঃ শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১
শিরোনাম

প্রথম অফিশিয়াল ম্যাচে নেই মাহমুদউল্লাহ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১২ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১২ অক্টোবর ২০২১ | ৪৭০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপকে সামনে রেখে আজ মঙ্গলবার প্রথম অফিশিয়াল প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। প্রথম প্রস্তুতি ম্যচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ শ্রীলঙ্কা। আবুধাবিতে ম্যাচটি শুরু হবে রাত ৮টায়। তবে এই ম্যাচে পাওয়া যাচ্ছে না বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহকে।

অধিনায়কের পিঠের ব্যথা এখনও পুরোপুরি সেরে ওঠেনি। তাই মূল টুর্নামেন্টের আগে তাঁকে নিয়ে ঝুঁকি নেবে না টিম ম্যানেজম্যান্ট। যেমনটা ইঙ্গিত দিলেন দলের সঙ্গে থাকা নির্বাচক হাবিবুল বাশার।

বিসিবির পাঠানো ভিডিও বার্তায় বাশার জানান, টুর্নামেন্ট শুরুর পর আগে যতটা সম্ভব মাহমুদউল্লাহকে বিশ্রাম দিতে চান তাঁরা, চোট নিয়ে খুব বেশি দুশ্চিন্তা নেই। (মাহমুদউল্লাহ) রিয়াদের হালকা পিঠের ব্যথা আছে। মূল খেলা শুরু হলে খুব একটা বিশ্রামের সুযোগ নেই। একের পর এক ম্যাচ আছে। যে কারণে আমরা কোনো ঝুঁকি নিচ্ছি না। ওকে হয়তো প্রস্তুতি ম্যাচেও বিশ্রাম দেওয়া হবে। যেহেতু অভিজ্ঞ ক্রিকেটার, তাকে একটু বিশ্রাম দিয়ে ম্যাচের আগে প্রস্তুত করার চেষ্টা করব।

পিঠে ব্যথা থাকায় অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ ওমান দলের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচটি খেলতে পারেননি। ওমান দলের বিপক্ষে রান পাননি মুশফিক, আফিফ, সৌম্যরা। তাই আজ তাঁদের জন্য রানে ফেরার বড় পরীক্ষা।


আরও খবর



ভারতীয় সিনেমায় বাংলাদেশি অধরা

প্রকাশিত:রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১ | ৩৪৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ঢাকাই সিনেমার এ সময়ের নায়িকা অধরা খানের অভিষেক হয়েছে ভারতীয় সিনেমায়। মালয়ালম নির্মাতা কারু নাক্কারের পরিচালনায় একটি সিনেমায় অভিনয় করছেন তিনি। যাতে অধরার সঙ্গে জুটি বাঁধছেন কলকাতার নবীন এক নায়ক। মুম্বাই থেকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন তিনি।

অধরা বলেন, বর্তমানে সিনেমাটির শুটিংয়ের কাজে ভারতে আছি। ২০ অক্টোবর পর্যন্ত সেখানে সিনেমাটির টানা শুটিং চলবে। এরপর প্রয়োজন পড়লে আগামী মাসে আবারও কলকাতায় যাবো। গত সেপ্টেম্বরে মালদ্বীপে সিনেমাটির শুটিং শুরু হয়। তখন সেখানে দুটি গানের চিত্রায়নে অংশ নেন তারা। তবে নির্মাতা সংস্থার বারণ থাকায় সিনেমাটি নিয়ে আর বিস্তারিত তথ্য আপাতত দিতে পারছেন না।

নায়িকা আরও বলেন, প্রথমবারের মতো কলকাতার সিনেমায় অভিনয় করছি। এটা আমার জন্য অনেক আনন্দের একটি খবর। নিজের সর্বোচ্চটা দিয়ে কাজটি করছি। তবে এজন্য আমাকে অনেক অপেক্ষা করতে হয়েছে। কারণ ২০২০ সালের ফ্রেুয়ারির দিকে কলকাতায় গিয়ে সিনেমাটির কথা চূড়ান্ত করি। তখন শুটিংও শুরু হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু করোনার কারণে পিছিয়ে যায়। অবশেষে কাজটি শুরু হওয়ায় ভালো লাগছে।

নিউজ ট্যাগ: অধরা খান

আরও খবর



একদিনে চাকরির পরীক্ষা এড়াতে সার্কুলার আসছে: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৭ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৭ অক্টোবর ২০২১ | ৬৮৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মহামারি করোনার কারণে দীর্ঘ দিন বন্ধ ছিলো নানা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগ পরীক্ষা। বর্তমানে পরিস্থিতি অনেকটা স্বাভাবিক হয়ে আসায় নিয়োগ পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করেছে সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান। শুক্রবার (৮ অক্টোবর) সকাল-বিকেল মিলে সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের ১৪টি চাকরির পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এর আগেও একই দিনে একাধিক চাকরির পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

ফলে টাকা খরচ করে আবেদন করা প্রার্থীদের অনেকেই পরীক্ষায় অংশ নিতে পারেনি। চাকরি প্রত্যাশীদের এই সমস্যা সমাধানে উদ্যোগ নেওয়ার কথা জানিয়েছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন। তিনি বলেছেন, এ বিষয়ে আমরা একটি সার্কুলার দেব।

সাপ্তাহিক ছুটির দিন শুক্রবার ও শনিবার চাকরির পরীক্ষাগুলো বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নেওয়া হয়। কারণ অধিকাংশ ক্ষেত্রে এই দুই দিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোয় ক্লাস ও পরীক্ষা হয় না।

কিন্তু অতীতের মতো বেশিরভাগ পরীক্ষা শুক্রবার হওয়ায় সমস্যায় পড়েছেন প্রার্থীরা। শুক্রবার (৮ অক্টোবর) একই দিনে অন্তত ১৪টি সরকারি প্রতিষ্ঠানের চাকরির পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

একদিনই একাধিক পরীক্ষার তারিখ পড়ায় বড় ধরনের সমস্যায় পড়েছেন চাকরিপ্রার্থীরা। আবারও একই সময়েও অনুষ্ঠিত হবে কিছু পরীক্ষা। তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির সহকারী ব্যবস্থাপক (জেনারেল) পদের নিয়োগ পরীক্ষা শুক্রবার সকাল ১০টা থেকে ১১পর্যন্ত। একই সময়ে অনুষ্ঠিত হবে বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের সহকারী পরিচালক (প্রশাসন) পদের নিয়োগ পরীক্ষা।

এ বিষয়ে জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন গণমাধ্যমকে বলেন, মহামারির কারণে অনেকদিন চাকরির পরীক্ষা হয়নি। সে কারণে একসঙ্গে পরীক্ষাগুলো হচ্ছে। তবে চাকরিপ্রার্থীদের কথা বিবেচনা করে ভবিষ্যতে যাতে একসঙ্গে পরীক্ষাগুলো না হয় এবং সমন্বয় করে তারিখ ঘোষণা করা হয় সেজন্য আমরা একটি সার্কুলার দেব।

অন্যদিকে, সরকারি কর্ম কমিশনের (পিএসসি) চেয়ারম্যান মো. সোহরাব হোসাইন জানিয়েছেন, শুক্রবার (৮ অক্টোবর) একাধিক পরীক্ষা থাকায় আমরা নন-ক্যাডারের পরীক্ষার তারিখ পরিবর্তন করেছি।



আরও খবর



মন্দির ভাঙচুরে অভিযুক্ত পেলেন নৌকা, ভোট বর্জনের সিদ্ধান্ত হিন্দুদের

প্রকাশিত:শনিবার ১৬ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:শনিবার ১৬ অক্টোবর ২০২১ | ৩১৬৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

চেয়ারম্যান থাকাকালীন হিন্দু সম্প্রদায়ের মন্দির ভাঙচুরের অভিযোগে জেল খেটেছেন। তিনিই পেয়েছেন এবারের ইউপি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন। ফলে ক্ষুদ্ধ হয়ে ভোটকেন্দ্রে না যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন স্থানীয় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দ।

ঘটনাটি পিরোজপুর সদর উপজেলার সিকদার মল্লিক ইউনিয়নের। অভিযুক্ত ব্যক্তি ইউনিয়নটির সাবেক চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম।

জানা যায়, ২০১৮ সালের ৭ অক্টোবর রাতে পিরোজপুর সদর উপজেলার সিকদার মল্লিক ইউনিয়নের পাঁচপাড়া সার্বজনীন শ্রী শ্রী কালী মন্দিরে হামলা চালিয়ে ভেঙে ফেলা হয় মন্দির। এ ঘটনায় মন্দির কমিটির সভাপতি বাদী হয়ে সিকদার মল্লিক ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক শহিদুল ইসলামকে প্রধান আসামি করে থানায় মামলা করেন। সেই মামলায় বেশ কিছুদিন জেল হাজতে ছিল শহিদুল ইসলাম।

এ ঘটনার পর থেকে স্থানীয় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের লোকজনের সাথে দূরত্ব তৈরি হয় শহিদুল ইসলামের। এবারের ইউপি নির্বাচনে ইউনিয়নটিতে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দেওয়া হয় তাকে। এতে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দের মধ্যে।

সিকদার মল্লিক পূজা উদযাপন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বাবু শেখর চন্দ্র মন্ডল জানান, যে আমাদের মন্দির ভেঙেছে তাকে ভোট দেওয়া সম্ভব না। আবার নৌকা প্রতীকের বাইরেও ভোট দিতে পারবো না। তাই এবার ভোট দিতে কেন্দ্রে যাবো না বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

এদিকে, পিরোজপুর সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম সিকদার জানান, শহিদুল ইসলামের বিরুদ্ধে মন্দির ভাঙার অভিযোগ শোনা গেলেও শক্ত কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তাই তাকে মনোনয়ন দেওয়ার সুপারিশ করা হয়েছে।

অভিযুক্ত শহিদুল ইসলাম জানান, কালী মন্দির ভাঙা নিয়ে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ মিথ্যা। তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা দেওয়া হয়েছিল। সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের লোকজন ভোট দিতে না যাওয়ার বিষয়ে তিনি বলেন, ইউনিয়নে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের কিছু লোক আছে যারা স্বাধীনতা বিরোধীদের সাথে হাত মিলিয়েছে।


আরও খবর



গ্রুপ সিডিংয়ের নিয়ম বদলে ফেলল আইসিসি

প্রকাশিত:বুধবার ২০ অক্টোবর ২০21 | হালনাগাদ:বুধবার ২০ অক্টোবর ২০21 | ৩২৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

গত ১৭ অগাস্ট টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সূচি প্রকাশের দিনই আইসিসি জানিয়েছিল, বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা যেকোনোভাবে প্রথম রাউন্ডে পার হতে পারলেই যথাক্রমে 'বি-১' ও 'এ-১' হিসেবে বিবেচিত হবে। অর্থাৎ গ্রুপ রানার্সআপ হলেও 'বি-১' হিসেবে সুপার টুয়েলভে 'গ্রুপ-২'তে পড়ার কথা বাংলাদেশের। কিন্তু বুধবার সংশোধনী পাঠিয়ে আইসিসি জানাল, এমনটি হচ্ছে না। টুর্নামেন্টের তিন দিন পার হওয়ার পর বদলে ফেলা হয়েছে গ্রুপ সিডিং।

সংশোধনী অনুসারে, 'বি' গ্রুপে চ্যাম্পিয়ন হলেই কেবল সুপার টুয়েলভে বাংলাদেশের গন্তব্য 'গ্রুপ-১'। যেখানে আগে থেকেই আছে ভারত, পাকিস্তান, আফগানিস্তান ও নিউজিল্যান্ড। রানার্সআপ হলে ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও দক্ষিণ আফ্রিকাকে নিয়ে গড়া 'গ্রুপ-২'তে যাবে মাহমুদউল্লাহর দল।

বিশ্বকাপের তিন দিনের খেলা চলে যাওয়ার পর গণমাধ্যমে পাঠানো মেইলে গ্রুপ সিডিং নিয়ে এমন সংশোধনের কথা জানায় ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা। প্রথম রাউন্ডে অবস্থানের ভিত্তিতেই করা হবে সিডিং।

১৭ অগাস্ট পাঠানো আইসিসির প্রথম মেইলে ছিল শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশ 'এ-১' ও 'বি-১' হিসেবে বিবেচিত হবে।

স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচ হেরে যাওয়ায় প্রথম পর্বে 'বি' গ্রুপে চ্যাম্পিয়ন হওয়া বাংলাদেশের জন্য কিছুটা কঠিন। এমনকি বিষয়টা পুরোটা নিজেদের হাতেও নেই। শেষ ম্যাচে স্কটল্যান্ড যদি ওমানকে হারায় তাহলে সব ম্যাচ জেতায় তারাই হবে গ্রুপ সেরা। তবে ওমান জিতে গেলে আসবে রানরেটের হিসাবনিকাশ।

সংশোধনীতে ভিন্ন কথা তাদের

আইসিসির প্রথম ঘোষণার পর বাংলাদেশকে 'বি-১' ধরে বিশ্বকাপ কাভার করার ইচ্ছার কথা জানিয়ে ম্যাচ সিলেকশন করেছিলেন সাংবাদিকরা। তাদের ম্যাচ সিলেকশন করার ফের সুযোগ দিচ্ছে আইসিসি। তবে বাংলাদেশকে 'বি-১' ধরে বিশ্বকাপের টিকেট কাটা দর্শকদের বেলায় কী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে তা জানায়নি সংস্থাটি। কেন এমন বদল, আগের জানানো ঘোষণায় কি কোনো ভুল ছিল- এসব কোনো কিছুই পরিষ্কার করেনি তারা।

 

 


আরও খবর



করোনায় আরও ২১ মৃত্যু, শনাক্ত ৭০৩

প্রকাশিত:বুধবার ০৬ অক্টোবর ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ০৬ অক্টোবর ২০২১ | ৪৯০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

দেশে একদিনে করোনা আক্রান্ত হয়ে আরও ২১ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে ভাইরাসটিতে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৭০৩ জন। মারা যাওয়া ২১ জনকে নিয়ে দেশে সরকারি হিসেবে এখন পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেলেন ২৭ হাজার ৬৩৫ জন আর নতুন শনাক্ত হওয়া ৭০৩ জনকে নিয়ে সরকারি হিসেবে এখন পর্যন্ত মোট শনাক্ত হলেন ১৫ লাখ ৬০ হাজার ১৫৫ জন।

বুধবার (৬ অক্টোবর) স্বাস্থ্য অধিদফতর নিয়মিত করোনা বিষয়ক বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত হয়ে সুস্থ হয়েছেন ৮১৭ জন। তাদের নিয়ে করোনা আক্রান্ত হয়ে দেশে সুস্থ হয়ে উঠলেন মোট ১৫ লাখ ২১ হাজার ১১৩ জন।

দেশে এখন পর্যন্ত করোনাতে রোগী শনাক্তের হার ১৫ দশমিক ৮১ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৭ দশমিক ৫০ শতাংশ আর শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুহার এক দশমিক ৭৭ শতাংশ।

একদিনে করোনার নমুনা সংগৃহীত হয়েছে ২৪ হাজার ৫৩১টি আর নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ২৪ হাজার ৩৭৬টি। দেশে এখন পর্যন্ত করোনার মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে মোট ৯৮ লাখ ৬৯ হাজার ২৯৩টি। এর মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা হয়েছে ৭২ লাখ ৫৯ হাজার ৪১৭টি আর বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা হয়েছে ২৬ লাখ নয় হাজার ৮৭৬টি।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ২১ জনের মধ্যে পুরুষ নয়জন আর নারী ১২ জন। দেশে করোনা আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত মোট পুরুষ মারা গেলেন ১৭ হাজার ৭২৪ জন আর নারী মারা গেলেন নয় হাজার ৯১১ জন। শতকরা হিসেবে পুরুষ ৬৪ দশমিক ১৪ শতাংশ আর নারী ৩৫ দশমিক ৮৬ শতাংশ।



আরও খবর
২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৪ জনের মৃত‌্যু

শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১

ডেঙ্গু: আরও ১২৩ জন হাসপাতালে

শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১