আজঃ শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪
শিরোনাম

রাজশাহী-মুর্শিদাবাদ নৌপথ উদ্বোধন

প্রকাশিত:সোমবার ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
রাজশাহী প্রতিনিধি

Image

বাংলাদেশ ও ভারতের নৌ প্রটোকলের আওতায় চালু হলো বহুল কাঙ্খিত রাজশাহীর গোদাগাড়ীর সুলতানগঞ্জ পোর্ট অব কল এবং সুলতানগঞ্জ-মায়া নৌপথে পণ্যবাহী নৌযান চলাচল।

পদ্মা ও মহানন্দার মোহনায় অবস্থিত গোদাগাড়ী উপজেলার সুলতানগঞ্জ অংশ সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১১ টায় সুলতানগঞ্জ নৌবন্দর এবং ভারতের মুর্শিদাবাদের মায়া নৌবন্দর পর্যন্ত পণ্যবাহী নৌযান চলাচলের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন এবং নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

উল্লেখ্য, রাজশাহী থেকে ভারতের মুর্শিদাবাদের ধূলিয়ান ও মায়া নৌবন্দর পর্যন্ত নৌরুটে নৌযান চালু ও রাজশাহীতে আন্তজার্তিক নৌবন্দর প্রতিষ্ঠায় গত ৫ বছর নিরলস প্রচেষ্টা চালিয়ে আসছিলেন রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন। এটি মেয়র লিটনের একটি  নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি। সুলতানগঞ্জ নৌবন্দর চালু ও সুলতানগঞ্জ-মায়া নৌপথে নৌযান চলাচল শুরুর মাধ্যমে মেয়র লিটনের নির্বাচনী প্রতিশ্রুতির বাস্তবায়ন হলো এবং পূরণ হলো রাজশাহীবাসীর বহুল কাঙ্খিত স্বপ্ন।

এদিকে সুলতানগঞ্জ নৌবন্দর ও সুলতানগঞ্জ-মায়া নৌপথে নৌযান চলাচলের উদ্বোধন উপলক্ষে এক সুধী সমাবেশের আয়োজন করে বিআইডব্লিউটিএ। সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র ও এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন, ঢাকায় নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার প্রণয় ভার্মা, রাজশাহী-১ (গোদাগাড়ী-তানোর) আসনের সংসদ সদস্য ওমর ফারুক চৌধুরী, রাজশাহী-৩ আসনের সংসদ সদস্য আসাদুজ্জামান আসাদ, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুল ওদুদ, রাজশাহী-৪ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুল কালাম আজাদ।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ) এর চেয়ারম্যান কমোডর আরিফ আহমেদ মোস্তফা। স্বাগত বক্তব্য দেন বিআইডব্লিউটিএর যুগ্মসচিব সেলিম ফকির।

রাসিক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন সাংবাদিকদের বলেন, পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদের ধূলিয়ান থেকে নৌপথটি গোদাগাড়ীর সুলতানগঞ্জ, রাজশাহী ও পাকশী হয়ে আরিচাঘাট পর্যন্ত গেছে। দীর্ঘদিন এটির ব্যাপারে কোনো উদ্যোগ ছিল না। আমি গত পাঁচ বছর বিভিন্ন জায়গায় যাওয়া, লেখালেখি ও ডিও লেটার দিয়েছি। ফলে এটা গতিশীল হয়েছে। অবশেষে প্রথম পর্যায়ে সুলতানগঞ্জ-মায়া নৌপথে নৌযান চলাচলের শুরু হলো। পরবর্তীতে এটি রাজশাহী হয়ে আরিচা পর্যন্ত চালু হবে। রাজশাহী নগরীতে নৌবন্দর স্থাপন করা হবে। এর মাধ্যমে রাজশাহীর অর্থনীতি গতিশীল হবে, অনেক কর্মসংস্থান হবে।

তিনি আরো বলেন, আমরা আজ অত্যন্ত আনন্দিত। পিছিয়ে পড়া রাজশাহীতে নৌবন্দর চালু হলো। এটির মাধ্যমে রাজশাহীর ব্যবসা বাণিজ্য বাড়বে। আমরা অনেক দিক দিয়ে উপকৃত হবো।

জানা গেছে, ১৯৬৫ সালে ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধের আগ পর্যন্ত সুলতানগঞ্জ-মায়া গোদাগাড়ী-ভারতের লালগোলা নৌঘাটের মধ্যে নৌপথে বাণিজ্য চালু ছিল। পরে রুটটি বন্ধ হয়ে যায়। সোমবার বাংলাদেশ সীমান্তের সুলতানগঞ্জ নৌ-বন্দরটি আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করা হয়। উদ্বোধনের পরে রাজশাহীর সুলতানগঞ্জ ঘাটটি নদী বন্দরের মর্যাদা পেলো। সুলতানগঞ্জ নৌ-বন্দরের মাধ্যমে এসব পণ্য ভারত থেকে আমদানিতে সময় ও খরচ কমে যাবে। এতে উপকৃত হবেন বাংলাদেশ-ভারত দুই দেশের ব্যবসায়ীরা। ব্যবসায়ীরা আশা করছেন, বছরে এই নৌপথে দুই দেশের মধ্যে হাজার কোটি টাকার বাণিজ্য হবে।

এর আগে নৌপরিবহণ মন্ত্রণালয়ের সভায় সিদ্ধান্ত হয় বাংলাদেশের রাজশাহীর সুলতানগঞ্জ আর ভারতের পশ্চিমবঙ্গের ধুলিয়ান নৌরুটে বাণিজ্য চালুর। রাজশাহী থেকে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদের ধুলিয়ান পর্যন্ত ৭৮ কিলোমিটার একটি নৌপথের অনুমোদন থাকলেও পদ্মার নাব্যতা সংকটের কারণে কার্যকর করা হয়নি। ফলে রুটটি সংক্ষিপ্ত করে রাজশাহীর গোদাগাড়ীর সুলতানগঞ্জ থেকে ভারতের মুর্শিদাবাদের ময়া নৌবন্দর পর্যন্ত আড়াআড়িভাবে ২০ কিলোমিটার পদ্মা নদী পাড়ি দিয়ে পণ্য আনা নেওয়া হবে। শুরুতে এই নৌপথে ভারত থেকে পাথর বালি ও বিভিন্ন ধরনের খাদ্য সামগ্রী আনা হবে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, সুলতানগঞ্জ থেকে ময়া নৌঘাটের নদীপথে দূরত্ব মাত্র ১৭ কিলোমিটার। সুলতানগঞ্জ নৌঘাটটি রাজশাহী-চাঁপাইনবাবগঞ্জ মহাসড়ক থেকে এক কিলোমিটার দক্ষিণের পদ্মার শাখা নদী মহানন্দার মোহনার কাছাকাছি। সারা বছর সুলতানগঞ্জের এই পয়েন্টে গভীর পানি থাকে।

অন্যদিকে, পশ্চিমবঙ্গের ময়া নৌঘাটটি মুর্শিদাবাদ জেলার জঙ্গিপুর মহকুমা শহরের কাছে ভারতীয় ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কের সঙ্গে যুক্ত। ফলে সুলতানগঞ্জ-ময়া পথে নৌবাণিজ্য শুরু হওয়ায় পরিবহন খরচ অনেকাংশে কমে যাবে। এতে রাজশাহীর অর্থনীতি গতিশীল হবে এবং ব্যাপক কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে।


আরও খবর



দেশে ফিরছেন আরও ১৪৪ লিবিয়া প্রবাসী

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নিজস্ব প্রতিবেদক

Image

লিবিয়া থেকে আরও ১৪৪ জন বাংলাদেশি নাগরিককে দেশে প্রত্যাবাসন করা হয়েছে। দূতাবাসের সার্বিক তত্ত্বাবধানে আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম) এর সহযোগিতায় এরই মধ্যে তারা বেনগাজী থেকে বিমানে করে রওনা দিয়েছেন।

ফেরত আসাদের মধ্যে ১২ জন বাংলাদেশি নাগরিক বেনগাজীর গানফুদা ডিটেনশন সেন্টারে আটক ছিলেন। শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তাদের বহন করা বিমানটি অবতরণ করবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

কয়েক বছর ধরে মানব পাচার হচ্ছে লিবিয়ায়। দেশটির বিভিন্ন ডিটেনশন সেন্টারে আটকসহ স্বেচ্ছায় দেশে যেতে ইচ্ছুক বাংলাদেশি নাগরিকদের নিরাপদে দেশে প্রত্যাবাসনের জন্য দূতাবাস স্থানীয় কর্তৃপক্ষ এবং আইওএম এর সাথে নিবিড়ভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

এ লক্ষ্যে বাংলাদেশের দূতাবাস নিয়মিতভাবে ডিটেনশন সেন্টার পরিদর্শন করছে এবং আটক বাংলাদেশিদেরকে আউটপাস প্রদানসহ প্রয়োজনীয় আইনগত সহায়তা দিচ্ছে বলে দাবি করছে দূতাবাসের কর্মকর্তারা। সমস্যাগ্রস্তদের স্থানীয় কর্তৃপক্ষের অনুমতি সাপেক্ষে পর্যায়ক্রমে আইওএম-এর সহায়তায় দেশে প্রত্যাবাসন করছে।

নিউজ ট্যাগ: লিবিয়া আইওএম

আরও খবর
শপথ নিলেন নতুন ৭ প্রতিমন্ত্রী

শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪




কার্ভাডভ্যানের পিছনে প্রাইভেটকারের ধাক্কা, নিহত ২

প্রকাশিত:সোমবার ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
টাঙ্গাইল প্রতিনিধি

Image

টাঙ্গাইলের বাসাইলে কাভার্ডভ্যানের পেছনে প্রাইভেটকারের ধাক্কায় দুই জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও দুই জন।

রোববার (৪ ফেব্রুয়ারি) রাত সাড়ে ৯টার দিকে ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধু সেতু মহাসড়কের গুল্যা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। হতাহতরা সবাই প্রাইভেটকারের যাত্রী ছিলেন। তাৎক্ষণিক তাদের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

বাসাইল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ মাজহারুল আমিন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা জানান, মহাসড়কের ফোর ব্রাদার্স ফিলিং পেট্টোল পাম্পের সামনে ঢাকামুখী লেনে কলাবোঝাই একটি পিকআপ ভ্যান বিকল হয়ে পড়ে। এসময় একটি কাভার্ডভ্যান ধীরে ধীরে এগিয়ে যাচ্ছিল। এমন সময় পেছন দিক থেকে প্রাইভেটকার এসে কাভার্ডভ্যানে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই প্রাইভেটকারে থাকা দুই জন মারা যান। আহত হন আরও দুই জন। তাদের উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।


আরও খবর



পাকিস্তানে নির্বাচনের আগের দিন জোড়া বিস্ফোরণে নিহত ২২

প্রকাশিত:বুধবার ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

পাকিস্তানের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলে নির্বাচনী প্রার্থীর কার্যালয়ের বাইরে দুটি পৃথক বোমা বিস্ফোরণে বুধবার (০৭ ফেব্রুয়ারি) কমপক্ষে ২২ জন নিহত হয়েছে। সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে এএফপি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে। বৃহস্পতিবার (০৮ ফেব্রুয়ারি) দেশটিতে জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কোয়েটা শহর থেকে প্রায় ৫০ কিলোমিটার এবং আফগানিস্তানের সীমান্ত থেকে প্রায় ১০০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত পিশিন জেলায় একজন স্বতন্ত্র প্রার্থীর কার্যালয়ের কাছে প্রথম হামলাটি ঘটে।

বেলুচিস্তান প্রদেশের তত্ত্বাবধায়ক তথ্যমন্ত্রী জান আচাকজাই এবং কোয়েটা পুলিশউভয়ই ওই বিস্ফোরণে মৃতের সংখ্যা এক ডজন এবং ২৫ জন আহত হয়েছে বলে জানিয়েছে।

আচাকজাই আরও জানান, প্রায় ১২০ কিলোমিটার পূর্বে কিল্লা সাইফুল্লাহ শহরে ইসলামী জমিয়ত উলেমা-ই-ইসলাম-এফ (জেউইআই-এফ) দলের প্রার্থীর নির্বাচনী কার্যালয়ের কাছে দ্বিতীয় বিস্ফোরণটি আঘাত হানে। এতে কমপক্ষে ১০ জন নিহত এবং ১২ জন আহত হয়েছে।

এ ছাড়াও একজন জ্যেষ্ঠ পুলিশ কর্মকর্তা এএফপিকে বলেছেন, ঘটনাটি শহরের প্রধান বাজারে ঘটেছে, যেখানে জেউইআই-এফের নির্বাচনী কার্যালয়কে লক্ষ্যবস্তু করা হয়েছিল।’

এএফপির তথ্য অনুসারে, গত বছরের জুলাই মাসে উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় খাইবারপাখতুনখোয়া প্রদেশে ডানপন্থী জেইউআই-এফ পার্টির একটি রাজনৈতিক সমাবেশে আত্মঘাতী বোমা হামলায় ৪৪ জন নিহত হয়।

গণমাধ্যমটি জানিয়েছে, নির্বাচনের প্রাক্কালে বুধবার (০৭ ফেব্রুয়ারি) নিরাপত্তা বাহিনীর অর্ধ মিলিয়নেরও বেশি সদস্য মোতায়েন শুরু হয়েছে। কর্তৃপক্ষ ৯০ হাজারেরও বেশি ভোটকেন্দ্রে ব্যালট পেপার বিতরণ করেছে।

গণমাধ্যমটি আরও জানিয়েছে, বৃহস্পতিবারের (০৮ ফেব্রুয়ারি) ভোটের দৌড়ে একাধিক নিরাপত্তা বিঘ্নিত হওয়ার ঘটনাও ঘটেছে। অন্তত দুই প্রার্থীকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে এবং দেশজুড়ে হামলায় আরও ডজন খানেক মানুষ লক্ষ্যবস্তু হয়েছে।

গত মঙ্গলবার রাতে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রচারণা শেষ হয়েছে। বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় সকাল ৮টায় ভোট শুরু হয়ে বিকেল ৫টায় শেষ হবে। প্রায় ১৮ হাজার প্রার্থী জাতীয় এবং চারটি প্রাদেশিক পরিষদের আসনের জন্য দাঁড়িয়েছেন।

সিন্ধুর প্রাদেশিক পুলিশ প্রধান রাফাত মুখতার বন্দর শহর করাচিতে বুধবার একটি সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, আমাদের অবশ্যই প্রতিটি স্তরে নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে।


আরও খবর



ছোট ভাইয়ের স্ত্রী ও ভাতিজিকে কুপিয়ে হত্যা

প্রকাশিত:সোমবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি

Image

গোপালগঞ্জে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ও মোবাইল ফোনে কথা বলা নিয়ে ছোট ভাইয়ের স্ত্রী বিউটি বেগম (৪০)  ও ভাতিজি এসএসসি পরীক্ষার্থী লামিয়াকে (১৫) কুপিয়ে হত্যা করেছে হারুন মীনা নামের এক ব্যক্তি।

রোববার (১৮ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় সদর উপজেলার জালালাবাদ ইউনিয়নের দুর্গাপুর গ্রামে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

পরিবারের বরাত দিয়ে গোপীনাথপুর পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক আশরাফ হোসেন জানান, পূর্ব থেকেই ছোট ভাই টুকু মীনার সঙ্গে বসতবাড়ি নিয়ে বিরোধ ছিল বড় ভাই হারুন মীনার। রোববার সন্ধ্যা ৭টার দিকে হারুনের উঠানে গিয়ে দুলাভাইয়ের সঙ্গে মোবাইল ফোনে কথা বলছিলেন তাঁর ছোট ভাই টুকু মীনার মেয়ে এসএসসি পরীক্ষার্থী লামিয়া ওরফে ছোটন। তখন হারুন রাগান্বিত হয়ে তার ওঠান থেকে ভাতিজা লামিয়াকে চলে যেতে বলেন। এ নিয়ে লামিয়া ও তার মা বিউটি বেগমের সঙ্গে কথা কাটাকাটি ও ঝগড়াঝাটি শুরু হয় হারুন মীনার। একপর্যায়ে তিনি দেশীয় অস্ত্র কাতরা দিয়ে দুজনকেই এলোপাতাড়ি ভাবে কুপিয়ে মারাত্মক আহত করেন। এতে ঘটনাস্থলেই লামিয়ার মৃত্যু হয়। গুরুতর আহত অবস্থায় বিউটিকে গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকেও মৃত ঘোষণা করেন।

ঘটনার পর থেকে হারুন মীনা পলাতক রয়েছেন বলে জানায় পুলিশ।

নিউজ ট্যাগ: কুপিয়ে হত্যা

আরও খবর



স্ত্রীর ফোনে আড়ি পেতে স্বামীর ১৯ কোটি টাকা আয়

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image

বাড়ি থেকে অফিস করতেন স্ত্রী, প্রয়োজনে সহকর্মীদের সঙ্গে অনেক অফিসিয়াল বিষয়ে আলাপ-আলোচনা করতেন। সেই স্ত্রীর ফোনে আড়ি পেতেই প্রায় ১৯ কোটি ৩২ লাখ টাকা আয় করেছেন স্বামী। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে। মার্কিন সিকিয়োরিটিস অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (এসইসি) রিপোর্টে উঠে এসেছে এই ঘটনার বিবরণ।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, এমন কাণ্ড ঘটানো ওই স্বামীর নাম টেইলার লুডন। তার স্ত্রী ব্রিটিশ সংস্থা বিপি পিলসিতে চাকরি করেন। কোভিড মহামারীর সময় থেকে বাড়িতে বসেই কাজ করতেন টেইলারের স্ত্রী।

গত বছর ফেব্রুয়ারি মাসে ব্রিটিশ সংস্থাটি ঘোষণা করে, মার্কিন সংস্থা ট্রাভেল সেন্টারস কিনতে চলেছে তারা। এই লেনদেন সংক্রান্ত পুরো প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত ছিলেন টেইলারের স্ত্রী। অফিসের অন্য কর্মীদের সঙ্গে তিনি যখন আলোচনা করতেন, সেই ফোনগুলোতে আড়ি পাততেন টেইলার।

সিকিয়োরিটিস অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন জানিয়েছে, স্ত্রীর ফোনে আড়ি পেতে জানতে পারেন বিপি পিএলসি ৭৪ শতাংশ পিমিয়াম দামে আমেরিকার ট্রাভেল সেন্টারস কিনতে যাচ্ছে। এই তথ্য কাজে লাগিয়ে ট্রাভেল সেন্টারসের একের পর এক শেয়ার কেনা শুরু করেন টেইলার। পুরাতন পড়ে থাকা অ্যাকাউন্টও সচল করেন।

এভাবে ১ দশমিক ৭৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার আয় করেন। বাংলাদেশি মুদ্রায় যা প্রায় ১৯ কোটি ৩২ লাখ টাকা। তবে শেষ পর্যন্ত কয়েকদিন আগে নিজের সমস্ত কীর্তি স্ত্রীর কাছে স্বীকার করেন টেইলার। সমস্ত ঘটনা শুনে ক্ষোভে ফেটে পড়েন টেইলারের স্ত্রী। সঙ্গে সঙ্গে বাড়ি ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেন। দিনকয়েকের মধ্যেই ডিভোর্সেরও আবেদন করেন তিনি।

শুধু তাই নয়, নিজের সংস্থার আধিকারিকদের গিয়ে গোটা বিষয়টি জানিয়ে দেন। তাতে উলটে নিজের বিপদ ডেকে আনেন। স্বামীর কুকর্মের সঙ্গী ছিলেন, এই অভিযোগ এনে চাকরি থেকে বরখাস্ত করা হয় টেইলারের স্ত্রীকে।

তবে একের পর এক অভিযোগের মুখে পড়ে আড়ি পেতে কামানো অর্থ ফিরিয়ে দিতে রাজি হয়েছেন টেইলার। তার আইনজিবী পিটার জিডেনবার্গ এ বিষয়ে তাৎক্ষণিক কোনো মন্তব্য করেননি। অপরদিকে বিপি এ বিষয়ে মন্তব্য করতে অস্বীকার করেছে।

কোভিড-১৯ মহামারীর শুরুতে বাড়ি থেকে অফিস করার চল শুরু হওয়ার পর থেকে এসইসি একাধিক ইনসাইডার-ট্রেডিং কেস পেয়েছে। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য বাড়ি থেকে কাজ করার সময় আড়ি পাতা বা তথ্য দেখে ফেলা। এতে ওয়ার্ক ফর্ম হোম রীতি ঝুঁকির মুখে পড়েছে।


আরও খবর