আজঃ মঙ্গলবার ২০ এপ্রিল ২০21
শিরোনাম

রূপগঞ্জে গণধর্ষণের শিকার তরুণী

প্রকাশিত:রবিবার ০৪ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:রবিবার ০৪ এপ্রিল ২০২১ | ১০৮জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
বরগুনা জেলার সদর থানার পরিরখাল গ্রামের পনু হাওলাদারের ছেলে বাবুল মিয়া ও ভোলা জেলার বোরহান উদ্দিন থানার খয়েরহাট গ্রামের রফিক মিয়ার ছেলে আমির হোসেন

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার চনপাড়া পুনর্বাসন কেন্দ্র এলাকা থেকে এক তরুণীকে (২৪) গণধর্ষণের মামলায় দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ। শনিবার (৩ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৮টার দিকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, বরগুনা জেলার সদর থানার পরিরখাল গ্রামের পনু হাওলাদারের ছেলে বাবুল মিয়া ও ভোলা জেলার বোরহান উদ্দিন থানার খয়েরহাট গ্রামের রফিক মিয়ার ছেলে আমির হোসেন। তারা বর্তমানে চনপাড়া পুনর্বাসন কেন্দ্রের মহি শিকদারের বাড়িতে বসবাস করে আসছেন।

রূপগঞ্জ থানা সূত্রে জানা গেছে, জেলার শান্তিগঞ্জ থানার ডুংলিয়া গ্রামের পরিবারের সদস্যদের সাথে ভুক্তভোগী ওই তরুণী রূপগঞ্জ উপজেলার কায়েতপাড়া ইউনিয়নের পূর্বগ্রাম এলাকার একটি বাড়িতে ভাড়ায় বসবাস করে আসছিলেন। গত ২৭ মার্চ রাতে আসামি বাবুল মিয়া ও আমির হোসেনসহ আরও কয়েকজন ওই তরুণীকে জোরপূর্বক তুলে এনে পূর্বগ্রাম এলাকার নির্জন স্থানে গণধর্ষণ করে। পরে এ ঘটনায় ধর্ষিতার বাবা বাদী হয়ে রূপগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।

রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জসিম উদ্দিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, দুই জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ঘটনার সাথে জড়িত অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান চলছে।


আরও খবর



মাঝে মাঝেই আমার খুব পাখি হতে ইচ্ছে করে

প্রকাশিত:বুধবার ২৪ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ২৪ মার্চ ২০২১ | ১০০জন দেখেছেন
এস এম মনির

Image

মাঝে মাঝেই আমার খুব পাখি হতে ইচ্ছে করে। এই যেমন আজ সকাল থেকে ভীষন ইচ্ছে করছে পাখি হয়ে যেতে। ইশ কি দারুণ হতো ব্যাপারটা! বুধবার (২৪ মার্চ) দুপুরে নিজের ফেসবুকে এমনটাই লিখেছেন ঢালিউডের লাস্যময়ী চিত্রনায়িকা পরীমনি।

পরীমনি তার স্ট্যাটাসে আরও লিখেছেন, আমার শহর থেকে শত শত মাইল দূরের শহর কলকাতায়। কাল সকাল থেকে করতে হবে আরও একগাদা টেস্ট। পাখি হলে ঠিক সন্ধ্যার আগে আগে উড়াল দিতাম আমি। কোন কিছুই আমাকে বেধে রাখতে পারতো না। ঘণ্টাখানেক নীল আকাশে ডানা ঝাপটে টুপ করে হাজির হতাম আপনাদের মাঝে। স্ফুলিঙ্গের প্রিমিয়ারে!

তার স্ট্যাটাস সূত্রে জানা গেছে, বর্তমানে কলকাতা অবস্থান করছেন তিনি। নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য সেখানে গেছেন এ অভিনেত্রী। স্ট্যাটাসের সূত্র ধরে পরীমনির সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ২২ মার্চ কলকাতা এসেছি। আরও দুই চারদিন থাকতে হবে। সকাল নয়টা থেকে বিভিন্ন ডাক্তারের চেম্বারে যেতে হয়েছে।

পরীমনি অভিনীত স্ফুলিঙ্গ সিনেমার প্রিমিয়ার ২৪ মার্চ। কলকাতায় থাকার কারণে প্রিমিয়ারে অংশ নিতে পারবেন না তিনি। পুরো আয়োজনকে মিস করবেন বলে কিছুটা মন খারাপ হচ্ছে এ অভিনেত্রীর। তৌকীর আহমেদ পরিচালিত স্ফুলিঙ্গ মুক্তি পাচ্ছে ২৬ মার্চ। সারাদেশের ৩৫টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে সিনেমাটি। 

নিউজ ট্যাগ: পরীমনি

আরও খবর



ঢাকায় নেপালের প্রেসিডেন্ট বিদ্যা দেবী ভাণ্ডারী

প্রকাশিত:সোমবার ২২ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:সোমবার ২২ মার্চ ২০২১ | ১১৩জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

নেপালের প্রেসিডেন্ট বিদ্যা দেবী ভাণ্ডারী ঢাকায় পৌঁছেছেন। রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের আমন্ত্রণে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর অনুষ্ঠানে যোগ দিতে দুই দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে তিনি ঢাকায় এলেন।

আজ (সোমবার) সকাল ১০টার দিকে বিদ্যা দেবী ও তার সফরসঙ্গীদের বহনকারী চার্টার্ড বিমানটি ঢাকায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ বিমানবন্দরে নেপালের প্রেসিডেন্টকে অভ্যর্থনা জানান। এসময় ২১ বার তোপধ্বনির পর, বিমানবন্দরে নেপালের প্রেসিডেন্টকে গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়।

এটিই বাংলাদেশে নেপালের রাষ্ট্রপতি পর্যায়ের প্রথম সফর। বিদ্যা দেবী ভাণ্ডারী ২২ ও ২৩ মার্চ দুইদিন ঢাকায় অবস্থান করবেন।

সফরসূচী অনুযায়ী কিছুক্ষণ পরই তিনি সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে যাবেন। বিকেলে প্রধানমন্ত্রী এবং পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন। এরপরে তিনি জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডের অনুষ্ঠানে যোগদান করবেন। ওই অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ ও নেপালের শিল্পীদের পরিবেশনায় একটি সাংস্কৃতিক পর্বেরও আয়োজন করা হয়েছে।

সন্ধ্যায় নেপালের প্রেসিডেন্ট বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন এবং পারস্পরিক দ্বিপাক্ষিক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করবেন। উভয় রাষ্ট্রনেতার উপস্থিতিতে দুই পক্ষের মধ্যে বেশ কয়েকটি চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

এবার ট্রানজিট ও প্রটোকল চুক্তিতে অপারেশনাল লাইজেশন অব রহনপুর-সিঙ্ঘাবাদ রেলওয়ে ট্রানজিট চুক্তির বিষয়টি নতুন করে সংযোজন করা হতে পারে। এতে করে চাঁপাইনবাবগঞ্জের রহনপুর-ভারতের মালদহের সিঙ্ঘাবাদ সীমান্ত দিয়ে পণ্যবাহী ট্রেন নেপালের বিরাটনগর পর্যন্ত যাবে। মাঝে ভারতের ভূখণ্ড ব্যবহার করবে নেপাল।

বর্তমানে বাংলাদেশ ও নেপালের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় ট্রানজিট ও প্রটোকল চুক্তি রয়েছে। এই চুক্তির আওতায় নেপালকে ৬টি পোর্ট অব কল দেয়া হয়। এগুলো হলো চট্টগ্রাম বন্দর, মোংলা বন্দর, বেনাপোল, বাংলাবান্ধা, বিরল ও চিলাহাটি। এসব পোর্ট অব কলে নেপালের যানবাহন পণ্য পরিবহন করতে পারে। কিন্তু বর্তমানে বাংলাবান্ধা ছাড়া আর কোনো বন্দর দিয়ে নেপালে নিয়মিত পণ্য আসা-যাওয়া করে না।

দুই দেশের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে বলে পররাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের সূত্রগুলো জানিয়েছে। চুক্তি ও সমঝোতা স্মারকগুলোতে দুই দেশের মধ্যে পর্যটন খাত, সাংস্কৃতিক যোগাযোগ ও বাণিজ্যিক সম্পর্ক জোরদার হবে।

আজ রাতেই রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ নেপালের প্রেসিডেন্ট এবং তার প্রতিনিধিদলের সম্মানে একটি নৈশভোজের আয়োজন করবেন।

আগামীকাল (২৩ মার্চ) নেপালের প্রেসিডেন্ট বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘর পরিদর্শন করবেন। এরপর তিনি কাঠমান্ডু ফিরে যাবেন।

নেপালের প্রেসিডেন্টের প্রতিনিধিদলে নেপালের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও পররাষ্ট্র সচিব ছাড়াও উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা অন্তর্ভুক্ত রয়েছেন।


আরও খবর



নদীবন্দরে কালবৈশাখীর শঙ্কা, চলছে ২ নম্বর সতর্ক সংকেত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০১ এপ্রিল ২০২১ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০১ এপ্রিল ২০২১ | ১১১জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

ময়মনসিংহ, সিলেট এবং কুমিল্লা অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে পশ্চিম/উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৬০ থেকে ৮০ কিলোমিটার বেগে বৃষ্টি/বজ্রবৃষ্টিসহ অস্থায়ীভাবে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। তাই সেসব এলাকার নদীবন্দরসমূহকে ২ নম্বর নৌ হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

এছাড়া ঢাকা এবং টাঙ্গাইল অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে পশ্চিম/উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ীভাবে দমকা/ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি/বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এসব এলাকার নদীবন্দরসমূহকে ২ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলেছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

বুধবার (৩১ মার্চ) রাতে এক আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, পশ্চিমা লঘুচাপের বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। এর একটি বর্ধিতাংশ অবস্থান করছে উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত।

এ অবস্থায় বৃহস্পতিবার (১ এপ্রিল) পাবনা ও বগুড়া অঞ্চলসহ সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং ঢাকা, ময়মনসিংহ, রংপুর ও চট্টগ্রাম বিভাগের দু'এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা/ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি/বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেইসঙ্গে কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্তভাবে শিলাবৃষ্টিও হতে পারে।

নিউজ ট্যাগ: কালবৈশাখী ঝড়

আরও খবর



অতিরিক্ত টমেটো খাওয়ার ক্ষতিকর দিক

প্রকাশিত:শুক্রবার ২৬ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:শুক্রবার ২৬ মার্চ ২০২১ | ১০১জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

খাবারও, যতো পুষ্টিগুণে ভরপুরই হোক না কেনো তা অতিরিক্ত খাওয়ার ফলে স্বাস্থ্যের অনেক ক্ষতি হয়ে থাকে। ঠিক টমেটোও তাই। সবজি, সুপ বা সালাদ সর্বত্র মানানসই এই টমেটো। আর এ কারণেই হয়তো একটু বেশিই খাওয়া হয়ে থাকে টমেটো। নিয়মিত টমেটো খাওয়ার যেমন উপকার রয়েছে আবার অতিরিক্ত খাওয়ার ক্ষতিকর দিকও রয়েছে। এবার তাহলে ক্ষতিকর দিকগুলো সম্পর্কে জেনে নেয়া যাক-

পেটের সমস্যা : টমেটো হজম প্রক্রিয়া ঠিক রাখে। তবে বেশি পরিমাণে খাওয়া হলে বিপরীতও হতে পারে। অতিরিক্ত টমেটো খাওয়ার ফলে পেট ফাঁপার সমস্যা হয়ে থাকে এবং অনেক সময় ডায়রিয়া পর্যন্ত হয়।

অ্যাসিড রিফ্লেক্স : প্রাকৃতিক এই সবজিতে প্রচুর পরিমাণ অ্যাসিড রয়েছে। কারো যদি অ্যাসিডের রিফ্লেক্স থাকে তাহলে টমেটো খুবই কম পরিমাণে খাওয়া উচিত। বেশি টমেটো খেলে পেটে অ্যাসিড হতে পারে।

কিডনিতে পাথরের সমস্যা : পটাসিয়াম সমৃদ্ধ খাবার কিডনিজনিত সমস্যার শিকার রোগীদের কম খাওয়ার পরামর্শ দিয়ে থাকেন বিশেষজ্ঞরা। টমেটোয় থাকা অক্সালেট কিডনিতে পাথর তৈরির কাজ করে থাকে। কিডনিজনিত সমস্যা থাকলে টমেটো খাওয়ার ব্যাপারে অবশ্যই বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ নিবেন।

রক্তচাপজনিত সমস্যা : কাঁচা টমেটোয় সোডিয়ামের পরিমাণ কম থাকে। কিন্তু টমেটো দিয়ে সুপ তৈরির সময় যে সকল ধাতুজনিত উপকরণ ব্যবহার করা হয় তা শরীরের জন্য খুবই ক্ষতিকর। সোডিয়ামের পরিমাণ শরীরে বেশি হলে রক্তচাপ বৃদ্ধির সম্ভাবনা থাকে।

অ্যালার্জির সমস্যা : অতিরিক্ত টমেটো খাওয়ার ফলে অ্যালার্জি হতে পারে। একজিমা, ফুসকুড়ি, চুলকানি, গলা ব্যথা এবং মুখ ফোলাভাব হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এ কারণে যাদের অ্যালার্জিজনিত সমস্যা রয়েছে তাদের টমেটো না খাওয়াই ভালো।


আরও খবর



৫০ শতাংশ উপস্থিতি বাস্তবায়ন হচ্ছে: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

প্রকাশিত:বুধবার ৩১ মার্চ ২০২১ | হালনাগাদ:বুধবার ৩১ মার্চ ২০২১ | ১০৭জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image
৫০ শতাংশ উপস্থিতির বিষয়টি আমাদের ডিপার্টমেন্টে প্রায় শতভাগ নিশ্চিত করেছি। কারা অফিসে থাকবে বা কারা বাসায় থাকবেন, সে রোস্টার করা হয়েছে

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের ১৮ দফা নির্দেশনার একটি- অফিস-আদালতে ৫০ শতাংশ উপস্থিতির বিষয়টি বাস্তবায়ন শুরু হয়েছে জানিয়ে জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলেছেন, তার মন্ত্রণালয় এটি শতভাগ বাস্তবায়ন করেছে। আর অন্যান্য মন্ত্রণালয়গুলোও বাস্তবায়ন করছে এবং এ হার প্রায় ৭০ শতাংশ বলে জানিয়েছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী।

করোনা সংক্রমণ বাড়ায় গত সোমবার (২৯ মার্চ) প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিব ড. আহমদ কায়কাউস স্বাক্ষরিত নির্দেশনাগুলোর একটিতে বলা হয়েছে, জরুরি সেবায় নিয়োজিত প্রতিষ্ঠান ছাড়া সব সরকারি-বেসরকারি অফিস/প্রতিষ্ঠান শিল্প কারখানাগুলো ৫০ ভাগ জনবল দ্বারা পরিচালনা করতে হবে। গর্ভবতী/অসুস্থ/বয়স ৫৫-ঊর্ধ্ব কর্মকর্তা/ কর্মচারীর বাড়িতে অবস্থান করে কর্মসম্পাদনের ব্যবস্থা নিতে হবে।

সরকারের ১৮ দফা নির্দেশনার পরদিন শবে বরাতের সরকারি ছুটি শেষে বুধবার (৩১ মার্চ) প্রথম অফিস। সচিবালয়ে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ে দেখা গেছে, প্রায় স্বাভাবিকের মতোই উপস্থিতি। তবে স্বাস্থ্যবিধি মানতে কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে। মাস্ক পরা নিয়ে নির্দেশনা, তাপমাত্রা পরিমাপক যন্ত্র ব্যবহার করা হচ্ছে। 

জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলেন, ৫০ শতাংশ উপস্থিতির বিষয়টি আমাদের ডিপার্টমেন্টে প্রায় শতভাগ নিশ্চিত করেছি। কারা অফিসে থাকবে বা কারা বাসায় থাকবেন, সে রোস্টার করা হয়েছে। অন্যান্য মন্ত্রণালয়গুলোতেও বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে হয়তো ৭০ ভাগ হয়ে গেছে। কেন্দ্রীয় এবং বড় সিদ্ধান্ত, দুই-একদিনের মধ্যে এটি বাস্তবায়ন হবে।

ফরহাদ হোসেন বলেন, গর্ভবতী, অসুস্থ ও যাদের বয়স ৫৫ বছরের বেশি বা যাদের ফুসফুসে সমস্যা রয়েছে, তারা বাড়িতে অবস্থান করে অফিস (হোম অফিস) করবেন।


আরও খবর