আজঃ মঙ্গলবার ২৫ জানুয়ারী ২০২২
শিরোনাম

ভরা মৌসুমেও চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে সবজি

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৪ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৯৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সপ্তাহের ব্যবধানে মুরগির দাম কমলেও ভরা মৌসুমেও চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে সব ধরনের সবজি। বাজারে ব্রয়লার মুরগির দাম কেজিতে ১০ টাকা কমেছে। তবে বেড়েছে শসা, ফুলকপি ও শিমসহ বেশ কিছু পণ্যের দাম।

শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) রাজধানীর বিভিন্ন বাজার ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছ।

বাজারে ব্রয়লার মুরগির কেজি বিক্রি করছেন ১৭০ থেকে ১৭৫ টাকা, যা গত সপ্তাহে ছিল ১৮০ থেকে ১৮৫ টাকা। আর দুই সপ্তাহ আগে ছিল ১৯৫ থেকে ২০০ টাকা।

কমেছে সোনালি ও লাল লেয়ার মুরগি দামও। সোনালি মুরগির কেজি বিক্রি হচ্ছে ২৪০ থেকে ২৬০ টাকা, যা গত সপ্তাহে ছিল ২৬০ থেকে ২৮০ টাকা। আর দুই সপ্তাহ আগে ছিল ৩০০ থেকে ৩৪০ টাকা। গত সপ্তাহে ২৪০ থেকে ২৫০ টাকা কেজি বিক্রি হওয়া লাল লেয়ার মুরগি কেজি বিক্রি হচ্ছে ২৩০ থেকে ২৪০ টাকা।

সরবরাহ বাড়াতে মুরগির দাম কমেছে বলে জানিয়েছেন ব্যবাসয়ীরা। সামনে মুরগির দাম আরও কমবে।

এদিকে সবজির বাজারে সপ্তাহের ব্যবধানে শসার দাম বেড়ে প্রায় তিনগুণ হয়েছে। শসার কেজি বিক্রি হচ্ছে ৬০ থেকে ৮০ টাকা। গত সপ্তাহে যা ছিল ২৫ থেকে ৩০ টাকা।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, সরবরাহ কমে যাওয়ায় শসার দাম বেড়েছে। তবে শসার এই দাম বেশি দিন থাকবে না। অল্প সময়ের মধ্যেই শসার দাম কমে যাবে।

শসার পাশাপাশি বেড়েছে ফুলকপির দামও। গত সপ্তাহে ৩০ থেকে ৪০ টাকা পিস বিক্রি হওয়া ফুলকপির দাম বেড়ে ৪০ থেকে ৬০ টাকা বিক্রি হচ্ছে। শিম বিক্রি হচ্ছে ৬০ থেকে ৮০ টাকা, যা গত সপ্তাহে ছিল ৪০ থেকে ৬০ টাকার মধ্যে। তবে সপ্তাহের ব্যবধানে দাম অপরিবর্তিত রয়েছে পাকা টমেটো, গাজর, মুলা ও শালগমসহ অন্যান্য সবজির।

 

নিউজ ট্যাগ: আজকের বাজার দর

আরও খবর
বাজারে বেশির ভাগ সবজির দাম কমেছে

শুক্রবার ১৭ ডিসেম্বর ২০২১




যে দল গডফাদার-খুনি লালন করে, সেই দল করেন কেন : আইভীকে তৈমূর

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৯ জানুয়ারী ২০২২ | ৫৫৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনি ও কলেজছাত্রী তনু হত্যাকাণ্ড সম্পর্কে জনসম্মুখে তথ্য প্রকাশ করতে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন (নাসিক) নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীকে অনুরোধ করেছেন স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তৈমূর আলম খন্দকার।

তিনি বলেন, সাগর-রুনি ও তনু হত্যাকাণ্ডে কারা জড়িত আপনি জানেন বলে বক্তব্য দিয়েছিলেন, যার রেকর্ড আমাদের কাছে আছে। জানা থাকলে সেটা জনসম্মুখে প্রকাশ করলে জনগণ আপনাকে ধন্যবাদ জানাবে।

রোববার (৯ জানুয়ারি) বিকেলে নিজ বাসভবনের মজলুম মিলনায়তন এক সংবাদ সম্মেলনে তৈমূর আলম খন্দকার এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ডা. আইভী নিজেই বলেছিলেন দুই নেত্রী দেশকে ধ্বংসের দিকে ঠেলে দিচ্ছে, রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় গডফাদাররা খুন করে বেড়াচ্ছে, বর্তমান সরকার খুনিদের পৃষ্ঠপোষক, আওয়ামী লীগ মনে করে ৬৪ জেলায় ৬৪ জন গডফাদার থাকলেই তাদের কাজ হয়ে যাবে- যার পেপার কাটিং রয়েছে। তাহলে যে দল গডফাদার-খুনি লালন করে, সেই দল আপনি (আইভী) করেন কেন?

তৈমূর বলেন, পৌরসভা থেকে সিটি কর্পোরেশনের ১৮ বছরে সততার বুলি আওড়িয়ে কি করে একজন রাজপ্রাসাদ গড়ে তুলতে পারেন। আর যে সব সাংবাদিক নাসিক পরিচালনায় মেয়রের ব্যর্থতা পত্র-পত্রিকায় তুলে ধরেছেন তাদের অনেককেই ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার শিকার হয়েছেন এবং কারাগারে যেতে হয়েছে।

তৈমুর আলম খন্দকার বলেন, সরকার দলীয় প্রার্থী একের পর এক আচরণবিধি ভঙ্গ করলেও নির্বাচন কমিশন শুধুমাত্র শোকজ করার নামে আইওয়াশ করেছে। নৌকার প্রার্থীর পক্ষে প্রচারণায় এসে কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক বলে গেছেন, তৈমূরকে রাস্তায় নামতে দেওয়া হবে না। নগরীর ২৭টি ওয়ার্ডে আমার পক্ষে গণজোয়ার সৃষ্টি হওয়ায় কর্মী-সমর্থকদের পরোক্ষভাবে হুমকি-ধমকি দেওয়া হচ্ছে। সর্বোপরি গতকাল শনিবার (৮ জানুয়ারি) সরকার দলীয় মেয়র প্রার্থী আমাকে নিয়ে তার নিজ দলের একজন এমপি ও জাতীয় পার্টির একজন এমপিকে জড়িয়ে যে রাজনৈতিক শিষ্টাচার বহির্ভূত মন্তব্য করেছেন সে ব্যাপারে কিছু না বললেই নয়।

সরকার দলীয় মেয়র প্রার্থী যে রাজনৈতিক শিষ্টাচার বহির্ভূত মন্তব্য করেছেন, সে ব্যাপারে আমার স্পষ্ট মন্তব্য হলো সরকার দলীয় নেতাদের এই বিভেদ-বিভাজনই নারায়ণগঞ্জের উন্নয়নের প্রধান অন্তরায়। শামীম ওসমান সরকার দলীয় এমপি আর সেলিম ওসমান সরকারি দলের জোটবদ্ধ জাতীয় পার্টির এমপি। আমি তৈমুর আলম খন্দকার প্রথম দিন থেকেই বলছি শামীম ওসমানের পায়ে তৈমূর আলম খন্দকার হাঁটে না। গত ৫০ বছর ধরে মাটি ও মানুষের সঙ্গে রাজনীতি করতে করতে তৈমূর আলম খন্দকারের ভিত্তি এতটাই শক্ত অবস্থান হয়েছে যে, শামীম ওসমান বা সেলিম ওসমানের হয়ে আমাকে নির্বাচনে অভিনয়ে নামতে হবে না।

তিনি আরও বলেন, শত শত বছর ধরে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির নগর এই নারায়ণগঞ্জ। অথচ সরকার দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে মসজিদ ও মন্দিরের জায়গা দখলের অভিযোগ উঠেছে। ওয়াকফাকৃত সম্পত্তি বা দেবোত্তর সম্পত্তি বিক্রি বা হস্তান্তর যোগ্য না হলেও শত বছরের প্রাচীন দেওভোগ লক্ষ্মী নারায়ণ মন্দিরের সম্পত্তি কি করে আপনার পরিবারের নামে হলো? একই সঙ্গে প্রায় সাড়ে ৫শ বছরের প্রাচীন মোঘলীয় মসজিদ তথা জিমখানা মসজিদের জায়গাও তিনি দখল করেছেন বলে ওই মসজিদ কমিটি ও ওয়াকফ এস্টেটের পক্ষ থেকে অভিযোগ উঠেছে।

তৈমূর আলম খন্দকার বলেন, সরকার দলীয় প্রার্থীর অবস্থান এতটাই নড়বড়ে হয়ে গেছে, হাতি মার্কা আজ জনতার মার্কা হয়ে গেছে। সরকার দলীয় প্রার্থীর পায়ের নিচে মাটি এতটাই সরে গেছে যে, পুলিশ প্রশাসনের লোক দিয়ে ভয়ভীতি আর জোর করে সরকার দলীয় নেতাদের মাঠে নামাতে হচ্ছে। ট্রাক ভর্তি করে পুলিশ পাঠিয়ে সরকারি মার্কার পক্ষে নির্বাচন করার জন্য হুমকি দেওয়া হচ্ছে ও হয়রানি করা হচ্ছে।

জনতার উদ্দেশে তিনি বলেন, আমার কোটি কোটি কালো টাকা নেই, কোনো ঠিকাদার সিন্ডিকেটও নেই। আমি সর্বদা আপনাদের সামনে খোলা বইয়ের মতই। আমি সব সময়েই অত্যাচার, অবিচার, শোষণ, নির্যাতন, সন্ত্রাস, ভূমিদস্যুতার বিরুদ্ধে শক্ত অবস্থানে ছিলাম, এখনো আছি। সর্বোপরি আমি নারায়ণগঞ্জের সর্বস্তরের মানুষের মতামতের ভিত্তিতে সুষম উন্নয়ন করতে চাই।

সংবাদ সম্মেলনে ২০১১ সালের নির্বাচনে আইভীর নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান সাবেক এমপি এস এম আকরাম, মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামাল, বন্দর উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউর রহমান মুকুল, জেলা বিএনপি নেতা জামাল উদ্দিন কালু, আব্দুস সবুর সেন্টু, সিদ্ধিরগঞ্জ থানা বিএনপির সাবেক সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা কামাল হোসেন, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হালিম জুয়েল, মহানগর শ্রমিক দলের সভাপতি এস এম আসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



আজ আপনার জন্মদিন হলে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১১ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৪০জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

আজ আপনার জন্মদিন হলে পাশ্চাত্য জ্যোতিষে আপনি মকর রাশির জাতক/জাতিকা। আপনার জন্মসংখ্যা : ২। আপনার ওপর প্রভাবকারী গ্রহ : চন্দ্র ও শনি। আপনার শুভ সংখ্যা : ২ ও ৮। শুভ বার : শনি ও সোম। শুভ রত্ন : নীলা ও মুক্তা।

মেষ (২১ মার্চ-২০ এপ্রিল)

শরীর মোটামুটি ভালো থাকবে। মানুষিক প্রশান্তি বজায় থাকবে। ভালো ব্যবহার দিয়ে কাজ আদায় করতে পারবেন। কাউকে প্রথম দেখায় ভালো লাগতে পারে। দাম্পত্য সম্পর্ক ভালো থাকবে।

বৃষ (২১ এপ্রিল-২০ মে)

দিনটি মিশ্র সম্ভাবনাময়। গোপন শত্রু সম্পর্কে সতর্ক থাকুন। আইনগত ঝামেলা এড়িয়ে চলুন। শরীর অসুস্থ হতে পারে। অবহেলা না করে চিকিৎসা গ্রহণ করুন।

মিথুন (২১ মে-২০ জুন)

পেশাগত যোগাযোগ চালিয়ে যান। সেক্ষেত্রে সাফল্য পেতে পারেন। আর্থিক দিক ভালো যাবে। জ্যেষ্ঠ ভাইবোনদের সঙ্গে সম্পর্ক ভালো থাকতে পারে। প্রয়োজনে তাদের সহযোগিতা পেতে পারেন।

কর্কট (২১ জুন-২০ জুলাই)

সামাজিক কাজে অংশ নিতে পারেন। পিতৃস্বাস্থ্য ভালো যাবে। বেকারদের কারো কারো চাকরি হতে পারে। কর্ম পরিবেশ অনুকূল থাকবে। পাবলিক ইমেজ বৃদ্ধি পাবে।

সিংহ (২১ জুলাই-২১ আগস্ট)

সামাজিক অগ্রগতি অব্যাহত থাকবে। কোনো আশা পূরণ হতে পারে। মন ভালো থাকবে। আধ্যাত্বিকতার প্রতি অনুরোধ করতে পারেন। ভ্রমণের সুযোগ পেতে পারেন।

কন্যা (২২ আগস্ট-২২ সেপ্টেম্বর)

দিনটি খুব একটা অনুকূল না-ও থাকতে পারে। ব্যবসায়িক দিক ভালো যাবে না। বিক্রয়-বাণিজ্যে লোকসান হতে পারে। কোনো ধরনের সামাজিক সমস্যার উদ্ভব হতে পারে। 

তুলা (২৩ সেপ্টেম্বর-২২ অক্টোবর)

দাম্পত্য সম্পর্ক ভালো থাকবে। কোনো ঘনিষ্ঠ বন্ধুর সহযোগিতা পেতে পারেন। আপনজন কেউ শত্রুতা করতে পারে। কারো সঙ্গে বিবাদে জড়াবেন না। ব্যবসায়িক দিক ভালো যাবে।

বৃশ্চিক (২৩ অক্টোবর-২১ নভেম্বর)

শরীর খুব একটা ভালো যাবে না। আহারে বিহারে সতর্ক থাকুন। প্রয়োজনে চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করুন। কর্মস্থলে সহকর্মীদের সঙ্গে ভুল বোঝাবুঝি এড়িয়ে চলুন। শত্রুদের সম্পর্কে সতর্ক থাকুন।

ধনু (২২ নভেম্বর-২০ ডিসেম্বর)

বিদ্যার্থীদের জন্য দিনটি শুভ। পড়াশোনায় মন বসাতে পারবেন। সম্ভাব্যক্ষেত্রে সন্তান লাভ হতে পারে। প্রেম ভালোবাসার জন্য সময় অনুকূল থাকতে পারে। রোমান্টিক প্রস্তাবে সাড়া পেতে পারেন।

মকর (২১ ডিসেম্বর-১৯ জানুয়ারি)

পারিবারিক পরিবেশ অনুকূল থাকতে পারে। মন ভালো থাকবে। কোনো আশা প্রত্যাশা পূরণ হতে পারে। মাতৃস্বাস্থ্য ভালো যাবে। অসুস্থ মায়ের আরোগ্য লাভ হতে পারে।

কুম্ভ (২০ জানুয়ারি-১৮ ফেব্রুয়ারি)

ছোট ভাইবোনদের সঙ্গে সম্পর্ক ভালো থাকতে পারে। প্রয়োজনে তাদের সহযোগিতা পেতে পারেন। কাজকর্মে উৎসাহ বোধ করতে পারেন। আত্মীয়দের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেন। প্রাপ্ত তথ্যের উপর নির্ভর করতে পারেন।

মীন (১৯ ফেব্রুয়ারি-২০ মার্চ)

বাড়িতে অতিথি সমাগম হতে পারে। মূল্যবোধ বজায় রাখুন। কাউকে কোনো প্রদত্ত প্রতিশ্রুতি দিতে পারেন। পাওনা টাকা আদায়ের জন্য তাগাদা দিন। পড়াশোনায় আনন্দ পাবেন।

নিউজ ট্যাগ: আজকের রাশিফল

আরও খবর
আজ আপনার জন্মদিন হলে

সোমবার ২৪ জানুয়ারী ২০২২

আজ আপনার জন্মদিন হলে

রবিবার ২৩ জানুয়ারী ২০২২




‘টান’ দিয়ে বছর শুরু সিয়াম-বুবলীর

প্রকাশিত:রবিবার ০২ জানুয়ারী 2০২2 | হালনাগাদ:রবিবার ০২ জানুয়ারী 2০২2 | ৪৭৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

সময়ের জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা শবনম বুবলী ও হালের জনপ্রিয় নায়ক সিয়াম আহমেদ। নতুন বছরটি নতুনভাবে শুরু করলেন তারা। প্রথমবারের মতো একসঙ্গে 'টান' নামের একটি ওয়েব ফিল্মে জুটি বেঁধেছেন দুই তারকা। তাদেরকে এক ফ্রেমে বেঁধেছেন তরুণ নির্মাতা রায়হান রাফি।

সিয়াম এর আগে ওয়েব ফিল্মে কাজ করলেও বুবলীর জন্য এটিই প্রথম। এমনকি পরিচালক ও সহশিল্পীর সঙ্গেও প্রথম কাজ এই অভিনেত্রীর। তাই উচ্ছ্বাস, আগ্রহ একটু বেশিই বটে। ইতোমধ্যে শুরু হয়েছে শুটিং। ঢাকার ভেতরেই চলছে চিত্রায়ন। তাতে অংশ নিচ্ছেন বুবলী ও সিয়াম।

বুবলী বলেন, ছবির গল্প, পরিচালক ও সহশিল্পী দেখেই কাজটি করছি। যখন কাজটির জন্য প্রস্তাব পেলাম, সবকিছু জানার পর দেখলাম ভালো কাজের একটি ফুল প্যাকেজ। রাফি ভাই এ সময়ের একজন পরীক্ষিত পরিচালক। সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়ে ভালো ভালো কাজ দিচ্ছেন দর্শকদের।

সিয়ামের সঙ্গে অভিনয়ের অভিজ্ঞতা জানিয়ে তিনি বলেন, 'প্রথম দিন তার সঙ্গে কাজ করতে গিয়ে একটু অস্বস্তি লাগছিল। কারণ তার সঙ্গে এতদিন হাই-হ্যালোর মধ্যেই ছিলাম। ওইভাবে মেলামেশা হয়নি আগে। কাজ করতে গিয়ে দেখলাম সহশিল্পীকে কমফোর্ট জোন দেওয়ার চেষ্টা করেন, ভালো কাজে উৎসাহিত করেন তিনি। যা বর্তমান সময়ে একজন সহশিল্পী হিসেবে খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

এদিকে রোববার (২ জানুয়ারি) সকালে সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ছবির মাধ্যমে নতুন কাজের ইঙ্গিত দেন সিয়াম। গাড়িতে তোলা সেই ছবির ক্যাপশনে অভিনেতা লেখেন, ২০২২-এর প্রথম শুটিং। সারপ্রাইজ আসছে। বোঝা গেল, সিয়ামের সেই সারপ্রাইজের নাম বুবলী।

জানা গেছে, আগামী ১০ জানুয়ারি পর্যন্ত শুটিং চলবে। এতে সিয়াম-বুবলীর সঙ্গে আরও থাকছেন সোহেল মণ্ডল, নীলাঞ্জনা নীলা প্রমুখ। ওয়েব প্ল্যাটফর্মের জন্য নির্মিত হলেও সিনেমাটি প্রেক্ষাগৃহেও মুক্তি পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।


আরও খবর



করোনায় আক্রান্ত অ্যাটর্নি জেনারেল

প্রকাশিত:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৭ জানুয়ারী ২০২২ | ৩৮৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

রাষ্ট্রের প্রধান আইন কর্মকর্তা অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। সোমবার (১৭ জানুয়ারি) অ্যাটর্নি জেনারেল নিজেই এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, গতকাল করোনা টেস্ট করলে রেজাল্ট পজিটিভ আসে। এখন বাসায় আইসোলশনে আছি। শারীরিক ভাবে সুস্থ আছি।

২০২০ সালের ৮ অক্টোবর রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ তাকে অ্যাটর্নি জেনারেল হিসেবে নিয়োগ প্রদান করেন। তিনি সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি আমিন উদ্দিনের আগে দুই মেয়াদে সমিতির সম্পাদক ছিলেন। ২০১৯-২০ মেয়াদে তিনি সমিতির সভাপতি ছিলেন।

সর্বশেষ ২০২০-২১ মেয়াদে তিনি সমিতির সভাপতি নির্বাচিত হন। আমিন উদ্দিন মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলায় জন্মগ্রহণ করেন।


আরও খবর



সবই র‍্যাবের ঘাড়ে দেওয়া অবিচার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী ২০22 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২০ জানুয়ারী ২০22 | ৩৮৫জন দেখেছেন
দর্পণ নিউজ ডেস্ক

Image

মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগে বাংলাদেশের এলিট ফোর্স র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নকে (র‌্যাব) জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশন থেকে বাদ দিতে চিঠি দিয়েছে ১২টি মানবাধিকার সংস্থা। বৃহস্পতিবার ডিসি সম্মেলন শেষে এক সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে কথা বলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, পৃথিবীতে এমন কোনো দেশ নেই যেখানে পুলিশের সঙ্গে সন্ত্রাসীদের এনকাউন্টারের (বন্দুকযুদ্ধ) ঘটনা না ঘটে। যখন সন্ত্রাসীরা অস্ত্র তুলে কথা বলে, তখন পুলিশ বাহিনী তো চুপ হয়ে বসে থাকতে পারে না। তখনই এ সমস্ত ফায়ারিং-এনকাউন্টারের ঘটনা ঘটে। আর এগুলোর সবই যদি এলিট ফোর্স র‍্যাবের ঘাড়ে দিয়ে দেওয়া হয়, তাহলে আমি মনে করি এটা অবিচার হচ্ছে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমি সব সময় বলে আসছি, যদি পেছনের দিকে তাকান, র‍্যাব কখন তৈরি হয়েছিল... যারা র‍্যাব তৈরি করেছিল তারাই এখন র‍্যাবকে অপছন্দ করছে, নানা ধরনের অপপ্রচার করছে।

তিনি বলেন, র‍্যাব যে ভালো কাজ করছে সেগুলো তারা তুলে ধরছে না। র‍্যাব যে মাদকের বিরুদ্ধে, ভেজাল দ্রব্য নিয়ন্ত্রণের জন্য কাজ করছে, সুন্দরবন দস্যুমুক্ত করল, চরমপন্থীদের বিরুদ্ধে অ্যাকশনে যাচ্ছে, তারা সব সময় জঙ্গি ও সন্ত্রাস দমনের জন্য কাজ করছে- সেসব কথা তারা কখনো তুলে ধরে না। তারা নানা ধরনের মানবাধিকারের কথা বলে। 

র‍্যাব ভালো কাজ করছে। যারা র‍্যাব তৈরি করেছিল তারাই এর বিরোধিতা করছে। তাহলে কি বলা যায় র‍্যাব পলিটিক্যাল বিরোধিতার মুখে- এ বিষয়ে আসাদুজ্জামান খান বলেন, আপনারাই বিচার করবেন, আপনাদের কাছে প্রশ্ন রেখে গেলাম।


আরও খবর