আজঃ শনিবার ০২ মার্চ 2০২4
শিরোনাম

একই দিনে তিন উৎসব, নিজেকে সাজাবেন যেভাবে

প্রকাশিত:সোমবার ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
জীবন ধারা ডেস্ক

Image

বসন্ত মানেই রঙের ছড়াছড়ি। শীতের জরাজীর্ণতা কাটিয়ে, ফুলে ফুলে সেজে ওঠার আনন্দময় প্রস্তুতি এখন প্রকৃতিজুড়ে। বসন্তবরণকে ঘিরে শুরু হয় নানা আয়োজন। তবে ঘটনাক্রমে এ বছর ১৪ ফেব্রুয়ারিতে একই সাথে ভালোবাসা দিবস, পহেলা ফাল্গুন ও সরস্বতী পূজা! একই দিনে বাঙালি তিনটি উৎসব পালন করবে।

এমন উৎসবমুখর দিনে নিজেকেও সুন্দরভাবে সাজিয়ে তুলতে কে না চায়! জেনে নেই এবার ১৪ ফেব্রুয়ারিতে কীভাবে নিজেকে ভিন্নভাবে উপস্থাপন করতে পারি।

পোশাক: ফাল্গুনে সবাই হলুদ বা সুবজ শাড়িতেই নিজেদের জড়িয়ে রাখতে পছন্দ করে। ভালোবাসা দিবসে আবার অনেকেই লাল পোশাক পরতে পছন্দ করেন। অন্যদিকে সরস্বতী পূজা মানেই লাল-সাদা শাড়ি। তাই নিজেদের পছন্দের রঙের শাড়ি নির্বাচন করতে পারেন এবারের ১৪ ফেব্রুয়ারিতে। ছেলেরা সাদা, হলুদ বা লাল রঙের পাঞ্জাবি পরতে পারেন। যেহেতু এখন দিনের বেলায় বেশ গরম পড়ে আর সন্ধ্যার পর হালকা শীত। তাই ভারি পোশাকের বদলে হালকা সুতির পোশাক পরাই আরামদায়ক। শাড়ি,পাঞ্জাবির সাথে শাল রাখতে পারেন সন্ধ্যায় বের হলে।

সাজসজ্জা: পোশাকের সঙ্গে চাই মানানসই সাজ। দিনের বেলা বের হলে হালকা মেকআপ করুন। চোখ সাজাতে হালকা আইশ্যাডো, মাশকারা আর গাঢ় করে আইলাইনার ও কাজল দিতে পারেন। যেহেতু চোখের মেকআপ একটু গাঢ়, তাই সামঞ্জস্য রাখতে ঠোঁটের মেকআপ মিউটেড রাখা ভালো। বিউটি ই-কমার্স প্লাটফর্ম চয়েজ লিগ্যাসির মেকআপ আর্টিস্ট তামান্না রহমান খান বলেন, বর্তমান আবহাওয়াতে পারফেক্ট মেকআপ এর জন্য বেইজ মেকআপটা ভালো হওয়া জরুরি। আর নিখুঁত মেকআপ লুকের জন্য স্কিন হাইড্রেশনের দিকে বেশি গুরুত্ব দিতে হবে। সেজন্য স্কিন টাইপ অনুযায়ী ক্লিঞ্জার, মশ্চারাইজার, প্রাইমার অ্যাপ্লাই করে স্কিন প্রিপেয়ার করে নিতে হবে।

তিনি বলেন, শুষ্ক ত্বকের জন্য হাইড্রেটিং প্রোডাক্ট এবং তৈলাক্ত ত্বকের জন্য ম্যাটিফাইং প্রোডাক্ট ব্যাবহার করতে হবে। ফাউন্ডেশনের বদলে স্কিন টিন্ট ব্যবহার করা যেতে পারে। মনে রাখতে হবে, ফ্রেশ এবং ক্লিন লুকের জন্য যত কম প্রোডাক্ট ব্যবহার করা যায় ততই ভালো। এছাড়া, লিপস্টিক দেয়ার আগে অবশ্যই লিপ বাম বা ভ্যাজলিন ব্যবহার করতে হবে। এবং সবশেষে মেকআপ সেটিং মিস্ট ব্যবহার করতে হবে সুন্দর ফিনিশিং লুক দেয়ার জন্য।

চুলের সাজ: খোলা চুল, বেণী কিংবা খোপা, তিনটিই বেশ মানায় শাড়ির সাথে। তবে এদিন ফুলের বাহার সবখানেই। তাই চুলে জড়িয়ে নিতে পারেন একটু ফুল। লাল, হলুদ, সাদা কিংবা আপনার পোশাকের সঙ্গে মানিয়ে বাছাই করতে পারেন চুলের ফুল।

গয়না: দেশজ উপকরণে তৈরি কাঠ, পুঁতি বা মাটির গহনা পরতে পারেন। কানে বড় দুল পরলে, গলায় কিছু না পরলেও হবে। পরতে চাইলে ছোট পুতির বা মাটির লম্বা মালা পরতে পারেন। শুধু যদি ঘোরার পরিকল্পনা থাকে তাহলে হাত ভরে কাচের রেশমী চুড়ি পরতে পারেন। আর কর্মজীবি নারী বা ছাত্রীরা হাত ভরে চুড়ি না পরে কাঠ, সুতা বা মেটালের মোটা একটা বা দুইটা চুড়ি পরতে পারেন। এতে করে উৎসবের আমেজও বজায় থাকবে আর কাজ করতেও অসুবিধাও হবে না। ছেলেরা পোশাকের সাথে মানানসই হাতঘড়ি বা ব্রেসলেট পরতে পারেন।

ছবি : ফ্যাশন হাউজ মিরা।


আরও খবর
২৯ ফেব্রুয়ারি: ইতিহাসের এই দিনে

বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

আজকের রাশিফল: বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




কিংবদন্তি অভিনেতা হুমায়ুন ফরীদিহীন এক যুগ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
বিনোদন ডেস্ক

Image

নান্দনিক অভিনয় গুণে একজন ভার্সেটাইল অভিনয়শিল্পী হয়ে উঠেছিলেন হুমায়ুন ফরীদি। পর্দায় তার অভিনয়ে বারবরই মুগ্ধ হতো দর্শকরা। জায়গা করে নিয়েছিলেন কোটি বাঙালির হৃদয়ে। কিন্তু হঠাৎ করেই ২০১২ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি না ফেরার দেশে পাড়ি জমান কিংবদন্তি এই অভিনেতা।

এ অভিনেতার মৃত্যু যেমন ইন্ডাস্ট্রিতে শূন্যতা তৈরি করেছে, তেমনি শূন্যতা তৈরি হয়েছে ভক্তহৃদয়ে। তাদের হৃদয় আজও চির অমলিন। আর প্রিয় এই সহকর্মী ও তারকার মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে সোশ্যাল মিডিয়া এবং বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছেন সবাই।

হুমায়ুন ফরীদির অভিনয় ক্যারিয়ার শুরু হয়েছিল মঞ্চ থেকে। তারপর টেলিভিশন নাটক ও চলচ্চিত্রে দ্যুতি ছড়িয়েছেন। নব্বইয়ের দশকে চলচ্চিত্রে অভিনয় শুরু করেন। তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য সিনেমাগুলো হলো দহন, বীর পুরুষ, লড়াকু, বিশ্বপ্রেমিক, দুর্জয়, আনন্দ অশ্রু, আসামী বধূ, প্রাণের চেয়ে প্রিয়, কখনো মেঘ কখনো বৃষ্টি, ভণ্ড, ব্যাচেলর, শ্যামল ছায়া ও মেহেরজান প্রভৃতি।

এ অভিনেতা তার সৃজনশীল কর্মযজ্ঞের জন্য স্বীকৃতিস্বরূপ মাতৃত্ব সিনেমার জন্য ২০০৪ সালে সেরা অভিনেতা শাখায় জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান। এছাড়া নাট্যাঙ্গনে অসামান্য অবদানের জন্য জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ প্রতিষ্ঠানের ৪০ বছর পূর্তি উপলক্ষে সম্মাননা প্রদান করেন হুমায়ন ফরীদিকে।

হুমায়ুন ফরীদির জন্ম ঢাকায় ১৯৫২ সালের ২৯ মে। ছেলেবেলায়ই হাতেখড়ি অভিনয়ে। ক্রমে সেটিই হয়ে ওঠে জীবনের ধ্যানজ্ঞান। শুধু খল চরিত্র নয়, নানা নিরীক্ষাধর্মী চরিত্রেও অভিনয়ের মুন্সিয়ানায় মুগ্ধ করেছেন দর্শকহৃদয়। কীর্তিমান এই অভিনয়শিল্পী রূপালি পর্দায় বর্ণিল আলো ছড়ালেও সাদামাটা জীবনেই খুঁজেছেন আশ্রয়।

নিউজ ট্যাগ: হুমায়ুন ফরীদি

আরও খবর
টেইলর সুইফট ইফেক্টে আক্রান্ত সিঙ্গাপুর

বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




পুকুরে অবরুদ্ধ কুমির ৩৫ বছর পর উদ্ধার

প্রকাশিত:শনিবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
নোয়াখালী প্রতিনিধি

Image

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে পুকুরে অবরুদ্ধ এক কুমির ৩৫ বছর পর উদ্ধার করা হয়েছে। শনিবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ২ টার দিকে উপজেলা চরহাজারী ইউনিয়নের ৩নম্বর ওয়ার্ডের চরহাজারী গ্রামের কুমির আলা বাড়ির পুকুর থেকে বন্যপ্রাণি ও অপরাধ দমন ইউনিটের একটি দল কুমিরটি উদ্ধার করে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত ৩৫ বছর উপজেলার চরহাজারী গ্রামের কুমির আলা বাড়ির পুকুরে অবৈধভাবে অবরুদ্ধ ছিল লোনা পানির এ কুমির। ওই কুমিরের নাম অনুসারে বাড়িটি পরিচিতি লাভ করে কুমির আলা বাড়ি হিসেবে। বছর খানেক আগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের  মাধ্যমে বিষয়টি নজরে আসে বন্যপ্রাণী ও অপরাধ দমন ইউনিটের। এরপর শনিবার দুপুর ২ টার দিকে ঘটনাস্থলে অভিযান চালায় বন্যপ্রাণি ও অপরাধ দমন ইউনিট। সেখানে ঘন্টাব্যাপী অভিযান চালিয়ে কুমিরটি উদ্ধার করে নোয়াখালী উপকূলীয় বন কর্মকর্তার কার্যালয় নিয়ে আসা হয়। স্থানীয়দের মধ্যে জনশ্রুতি রয়েছে অনেক মানুষ উদ্দেশ্য পূরণে মানত করে এ কুমিরকে খাওয়ার দিত। 

বন্যপ্রাণি ও জীববৈচিত্র সংরক্ষণ কর্মকর্তা রথীন্দ্র কুমার বিশ্বাস বলেন, গত বছর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের মাধ্যমে বিষয়টি আমরা অবগত হই। উদ্ধারকৃত কুমিরটি পঞ্চাশ বছর বয়সী এর ওজন প্রায় ১'শ কেজি। এখান থেকে কুমিরটি চট্টগ্রামের সাফারি পার্কে নিয়ে চিকিৎসা শেষে অবমুক্ত করা হবে। 

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, নোয়াখালীর উপকূলীয় বনকর্মকর্তা আবু ইউসুফ,বন্যপ্রাণি পরিদর্শক নার্গিস সুলতানা প্রমূখ।


আরও খবর



শহিদ দিবস ও আন্তজার্তিক মাতৃভাষা দিবসে বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের শ্রদ্ধা

প্রকাশিত:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
প্রেস বিজ্ঞপ্তি

Image

মহান শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে ভাষা আন্দোলনে শহিদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক পিএলসি.।

বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক পিএলসি এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও মোঃ হাবিবুর রহমান গাজীর নেতৃত্বে কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছে ব্যাংকের সর্বস্তরের কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ।


আরও খবর
ডিজিটাল ক্যাম্পেইন সিজন-২০ উদ্বোধন করলেন পরীমণি

বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




বসন্ত ও ভালোবাসা দিবসে শাকিবের উপহার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
বিনোদন ডেস্ক

Image

ভালোবাসা দিবস এবং পয়লা ফাল্গুনে ভক্তদের নতুন সিনেমা দরদর ফার্স্ট লুক উপহার দিলেন ঢাকাই ছবির শীর্ষ নায়ক শাকিব খান। পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১টায় ফার্স্ট লুকের পোস্টার প্রকাশ্যে আসার পরই তা রীতিমতো ভাইরাল হয়ে যায়।

ফার্স্ট লুকে শাকিবের ক্ষিপ্র দৃষ্টি সবার নজর কেড়েছে। হাত ও মুখমণ্ডলে তাজা রক্তের মাখামাখি। চোখে জ্বলছে আগ্নেয়গিরি। ভালোবাসার দিনেও ফেসবুক দাপিয়ে বেড়াচ্ছে এটি। শাকিবিয়ানরাও লুফে নিয়েছে সেই ছবি। মন্তব্যের ঘরে লিখছেন নানা কথা। জানিয়েছেন শুভকামনাও।

থ্রিলার ও রোমান্টিক অ্যাকশন ধাঁচের দরদ হচ্ছে যাচ্ছে বাংলাদেশ ও ইন্ডিয়ার যৌথ প্রযোজনার একটি প্যান ইন্ডিয়ান সিনেমা। এতে শাকিবের নায়িকা বলিউডের সোনাল চৌহান। আরও আছেন পায়েল সরকার, রাজেশ শর্মা, রাহুল দেব, অলোক জৈন, সাফা মারুয়া, এলিনা শাম্মী।

তরুণ নির্মাতা অনন্য মামুনের পরিচালনায় গত বছর ভারতে শুরু হয় দরদ ছবির দৃশ্যধারণের কাজ। শোনা যাচ্ছে ছবিটি বাংলা, হিন্দি, তামিল, তেলেগু, মালায়লাম, কন্নড়- ছয়টি ভাষায় মুক্তি পাবে। উল্লেখ্য, দরদ সিনেমা হতে যাচ্ছে শাকিব খানের প্রথম প্যান-ইন্ডিয়ান সিনেমা।


আরও খবর
টেইলর সুইফট ইফেক্টে আক্রান্ত সিঙ্গাপুর

বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




বেতাগীতে ব্যক্তি মালিকানাধীন বাশঁ কেটে নিল বন বিভাগ

প্রকাশিত:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | অনলাইন সংস্করণ
মোঃ খাইরুল ইসলাম মুন্না, বেতাগী (বরগুনা) প্রতিনিধি

Image

বরগুনার বেতাগীতে জনগণের ব্যক্তি মালিকানাধীন শতাধিক বাশঁ বিনা অনুমতিতে কেটে নিয়েছেন বন বিভাগের লোকজন। বন বিভাগের দাবি সরকারি নার্সারির কাজে ব্যবহার করা হবে এসব বাশঁ। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন উপজেলা প্রশাসন।

উপজেলার বেতাগী সদর ইউনিয়নের জিনবুনিয়া ও মোকামিয়া ইউনিয়নের ছোট মোকামিয়া গ্রামের বেরিবাধের পাশে রোপিত ব্যক্তি মালিকানাধীন বাশঁ ঝাড় থেকে কাউকে না বলে প্রায় দুই শতাধিক বাশঁ কেটে নিয়ে যায়। মোকামিয়া ইউনিয়নের ছোট মোকামিয়া গ্রামের মোহাম্মদ রাব্বির নিজস্ব জমির একটি বাঁশঝাড় থেকে প্রায় চল্লিশ থেকে পঞ্চাশটি বাশঁ তাকে না বলে কেটে নিয়ে যায় বন বিভাগের লোকজন।

এছাড়াও পানি উন্নয়ন বোর্ডের বেরিবাধ জমিতে রোপিত ব্যক্তি মালিকানাধীন বিভিন্ন বাঁশঝাড় থেকে এভাবে বাঁশ কেটে নেয়। বেতাগী সদর ইউনিয়নের জিনবুনিয়া গ্রামের নজরুল খান উপজেলা বন কর্মকর্তার কাছে অভিযোগ জানালেও কোন প্রতিকার পাননি।

মোকামিয়া ইউনিয়নের ছোট মোকামিয়া গ্রামের মোহাম্মদ রাব্বি বলেন, আমার নিজের জমিতে রোপিত বাঁশঝাড় থেকে চল্লিশ থেকে পঞ্চাশটি বাশঁ আমাকে না বলে কেটে নিয়ে যায়।

উপজেলা বন কর্মকর্তা মোঃ বেলায়েত হোসেন বলেন, সরকারি নার্সারী করার জন্য এসব বাশঁব্যবহার করা হবে। নার্সারি করার জন্য সরকারিভাবে কোন অর্থ বরাদ্দ থাকে না তাই আমাদেরকে এই প্রক্রিয়ায় বাশঁ সংগ্রহ করতে হয়।

বরগুনার সরকারি বন সংরক্ষক মোঃ তরিকুল ইসলাম বলেন, আমি বিষয়টি জানিনা তবে জেনে  প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছি।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফারুক আহমেদ বলেন, জনগণের বাশঁ এনে নার্সারি করার কোন সুযোগ নেই। যদি এ ধরনের ঘটনা ঘটে থাকে তাহলে আমি তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিব।


আরও খবর